সর্বাধিক জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল | বাংলা সংস্করণ www.jamunanews24.com http://www.jamunanews24.com/assets/images/logo.png logo for jamunanews24.com http://www.jamunanews24.com RSS feed from www.jamunanews24.com bn www.jamunanews24.com 2017-1-16 21:0:31 2017-1-16 21:0:31 news ‘হাউজ ওয়াইফ’নাটকে অভিনয় করছেন মা ছেলে http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43195/- যমুনা নিউজ: স্বনামধন্য নাট্য অভিনেত্রী দীপা খন্দকার তার ছেলে আদ্রিককে নিয়ে নতুন ধারাবাহিক নাটকে অভিনয় করছেন। নাটকটির নাম ‘হাউজ ওয়াইফ’। এটি পরিচালনা ও নির্দেশনা দিয়েছেন আকরাম খান।

দীপা খন্দকার বলেন, এই প্রথম মা ছেলে একসঙ্গে অভিনয় করছি। নাটকেও ও আমার ছেলের চরিত্রেই অভিনয় করছে। যদিও প্রথম প্রথম আদ্রিক বেশ লজ্জা পেতো। কিন্তু এখন তা কাটিয়ে ভালোই অভিনয় করছে। তার ভেতরে অভিনয় করার আগ্রহটা এখন বেশ লক্ষ্য করছি আমি।

তিনি হাউজ ওয়াইফ নাটক ছাড়াও কায়সার আহমেদ পরিচালিত ধারাবাহিক নাটক ‘সহযাত্রী’ বাংলাভিশনে প্রচার হচ্ছে। এতে অভিনয় করছি। অন্যদিকে শিগগিরই শুরু করবো আল হাজেন পরিচালিত নতুন ধারাবাহিক ‘লড়াই’-এর শুটিং।

হাউজ ওয়াইফ’ ধারাবাহিক নাটকটি প্রতি রবি, সোম, মঙ্গল ও বুধবার রাত ৮টা ৪৫ মিনিটে প্রচারিত হচ্ছে মাছরাঙ্গা টেলিভিশনে।

jamunanews24.com/zobaida/16 january 2017
যমুনা নিউজ: স্বনামধন্য নাট্য অভিনেত্রী দীপা খন্দকার তার ছেলে আদ্রিককে নিয়ে নতুন ধারাবাহিক নাটকে অভিনয় করছেন। নাটকটির নাম ‘হাউজ ওয়াইফ’। এটি পরিচালনা ও নির্দেশনা দিয়েছেন আকরাম খান।

দীপা খন্দকার বলেন, এই প্রথম মা ছেলে একসঙ্গে অভিনয় করছি। নাটকেও ও আমার ছেলের চরিত্রেই অভিনয় করছে। যদিও প্রথম প্রথম আদ্রিক বেশ লজ্জা পেতো। কিন্তু এখন তা কাটিয়ে ভালোই অভিনয় করছে। তার ভেতরে অভিনয় করার আগ্রহটা এখন বেশ লক্ষ্য করছি আমি।

তিনি হাউজ ওয়াইফ নাটক ছাড়াও কায়সার আহমেদ পরিচালিত ধারাবাহিক নাটক ‘সহযাত্রী’ বাংলাভিশনে প্রচার হচ্ছে। এতে অভিনয় করছি। অন্যদিকে শিগগিরই শুরু করবো আল হাজেন পরিচালিত নতুন ধারাবাহিক ‘লড়াই’-এর শুটিং।

হাউজ ওয়াইফ’ ধারাবাহিক নাটকটি প্রতি রবি, সোম, মঙ্গল ও বুধবার রাত ৮টা ৪৫ মিনিটে প্রচারিত হচ্ছে মাছরাঙ্গা টেলিভিশনে।

jamunanews24.com/zobaida/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 20:43:02 BDT Mon, 16 Jan 2017 20:43:02 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43195/-
শর্ত লঙ্ঘনে ব্রিজ উচ্ছেদ, জরিমানা http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43194/- যমুনা নিউজ: চট্টগ্রামের বাকলিয়ায় বির্জা খালের উপর নির্মাণাধীন ব্রিজ উচ্ছেদ কার্যক্রম শুরু করেছে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন।

সোমবার সিটি ম্যাজিস্ট্রেট সানজিদা শারমিন এর নেতৃত্বে এ উচ্ছেদ অভিযান শুরু করা হয়। মূলত শর্ত লঙ্ঘন করায় নির্মাণাধীন ব্রিজ উচ্ছেদ করা হয় বলে জানা গেছে।

সিটি কর্পোরেশনের জনসংযোগ কর্মকর্তা আবদুর রহিম যমুনা নিউজকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

অপরদিকে, নগরীর কোতোয়ালী ও সদরঘাটে শাহজাহান মার্কেটে ব্যবসায়ীদের ট্রেড লাইসেন্স নবায়ন না করা, ফ্রিজে রক্ষিত রান্না করা মাংস সংরক্ষণ, খাদ্যদ্রব্যে মেয়াদোত্তীর্ণ তারিখ না থাকার অভিযোগে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানকে ৫২,৫০০/- টাকা জরিমানা করেছে ভ্রাম্যমান আদালত।

সিটি কর্পোরেশনের উদ্যেগে ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট যুথিকা সরকার। অভিযানকালে ম্যাজিস্ট্রেটকে সহায়তা করেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের স্বাস্থ্য বিভাগের সেনেটারী ইন্সপেক্টর, স্বাস্থ্য পরিদর্শক, সিটি কর্পোরেশনের সংশ্লিষ্ট বিভাগ সমূহের কর্মকর্তা কর্মচারীগণ ও সিএমপি পুলিশ।


jamunanews24.com/forhad/rasib/nayon/16 january 2017
যমুনা নিউজ: চট্টগ্রামের বাকলিয়ায় বির্জা খালের উপর নির্মাণাধীন ব্রিজ উচ্ছেদ কার্যক্রম শুরু করেছে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন।

সোমবার সিটি ম্যাজিস্ট্রেট সানজিদা শারমিন এর নেতৃত্বে এ উচ্ছেদ অভিযান শুরু করা হয়। মূলত শর্ত লঙ্ঘন করায় নির্মাণাধীন ব্রিজ উচ্ছেদ করা হয় বলে জানা গেছে।

সিটি কর্পোরেশনের জনসংযোগ কর্মকর্তা আবদুর রহিম যমুনা নিউজকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

অপরদিকে, নগরীর কোতোয়ালী ও সদরঘাটে শাহজাহান মার্কেটে ব্যবসায়ীদের ট্রেড লাইসেন্স নবায়ন না করা, ফ্রিজে রক্ষিত রান্না করা মাংস সংরক্ষণ, খাদ্যদ্রব্যে মেয়াদোত্তীর্ণ তারিখ না থাকার অভিযোগে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানকে ৫২,৫০০/- টাকা জরিমানা করেছে ভ্রাম্যমান আদালত।

সিটি কর্পোরেশনের উদ্যেগে ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট যুথিকা সরকার। অভিযানকালে ম্যাজিস্ট্রেটকে সহায়তা করেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের স্বাস্থ্য বিভাগের সেনেটারী ইন্সপেক্টর, স্বাস্থ্য পরিদর্শক, সিটি কর্পোরেশনের সংশ্লিষ্ট বিভাগ সমূহের কর্মকর্তা কর্মচারীগণ ও সিএমপি পুলিশ।


jamunanews24.com/forhad/rasib/nayon/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 19:54:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 19:54:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43194/-
বিশ্বের অর্ধেক সম্পদ ৮ জনের হাতে http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43193/- যমুনা নিউজ: অতি ধনীর সঙ্গে পৃথিবীর অর্ধেক দরিদ্র জনগোষ্ঠীর মধ্যে বৈষম্য এখন পূর্ব ধারণার চেয়ে বেশি। বিশ্বের শীর্ষ আট ধনীর সম্পদের পরিমাণ দরিদ্রতম জনগোষ্ঠীর মোট সম্পদের সমান। অর্থাৎ এই আটজনের হাতে যে পরিমাণ সম্পদ রয়েছে, তা বিশ্বের ৩৬০ কোটি মানুষের মোট সম্পদের সমান।

অক্সফামের এক বিশ্লেষণে এ তথ্য উঠে এসেছে। সোমবার এ নিয়ে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে সংস্থাটি।

অক্সফাম বলছে, গেল এক বছরে অতি ধনী ও দরিদ্রতম ব্যক্তিদের মধ্যে ব্যবধান অনেক বেড়েছে। এই ব্যবধানের কারণে রাজনৈতিক ক্ষেত্রে বড় ধরনের আলোড়ন তৈরি হবে। রাজনৈতিক আলোড়ন বলতে গত বছর মার্কিন নির্বাচনে ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিজয় ও ইউরোপীয় ইউনিয়ন থেকে যুক্তরাজ্যের সরে আসার বিষয়টি (ব্রেক্সিট) উদাহরণ হিসেবে ব্যবহার করেছে অক্সফাম।

বিশ্বে অতি সম্পদশালী আর দরিদ্রতম জনগোষ্ঠীর মধ্যে অসাম্য বেড়েই চলেছে। এই অসাম্য কমাতে বিশ্ব নেতাদের এগিয়ে আসতে হবে। তা না হলে এ ধরনের বৈষম্যের বিরুদ্ধে জনরোষ বাড়তেই থাকবে বলেও প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়।

jamunanews24.com/Tapan/RP/manik/ 16 January 2017
যমুনা নিউজ: অতি ধনীর সঙ্গে পৃথিবীর অর্ধেক দরিদ্র জনগোষ্ঠীর মধ্যে বৈষম্য এখন পূর্ব ধারণার চেয়ে বেশি। বিশ্বের শীর্ষ আট ধনীর সম্পদের পরিমাণ দরিদ্রতম জনগোষ্ঠীর মোট সম্পদের সমান। অর্থাৎ এই আটজনের হাতে যে পরিমাণ সম্পদ রয়েছে, তা বিশ্বের ৩৬০ কোটি মানুষের মোট সম্পদের সমান।

অক্সফামের এক বিশ্লেষণে এ তথ্য উঠে এসেছে। সোমবার এ নিয়ে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে সংস্থাটি।

অক্সফাম বলছে, গেল এক বছরে অতি ধনী ও দরিদ্রতম ব্যক্তিদের মধ্যে ব্যবধান অনেক বেড়েছে। এই ব্যবধানের কারণে রাজনৈতিক ক্ষেত্রে বড় ধরনের আলোড়ন তৈরি হবে। রাজনৈতিক আলোড়ন বলতে গত বছর মার্কিন নির্বাচনে ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিজয় ও ইউরোপীয় ইউনিয়ন থেকে যুক্তরাজ্যের সরে আসার বিষয়টি (ব্রেক্সিট) উদাহরণ হিসেবে ব্যবহার করেছে অক্সফাম।

বিশ্বে অতি সম্পদশালী আর দরিদ্রতম জনগোষ্ঠীর মধ্যে অসাম্য বেড়েই চলেছে। এই অসাম্য কমাতে বিশ্ব নেতাদের এগিয়ে আসতে হবে। তা না হলে এ ধরনের বৈষম্যের বিরুদ্ধে জনরোষ বাড়তেই থাকবে বলেও প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়।

jamunanews24.com/Tapan/RP/manik/ 16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 19:41:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 19:41:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43193/-
ফেনীতে এবার করিম চেয়ারম্যানকে হত্যার চেষ্টা http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43192/-
যমুনা নিউজ: ফেনীর ফুলগাজী উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি একরামুল হককে হত্যার পর এবার ফেনী সদর উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি ও ছনুয়া ইউনিয়ন চেয়ারম্যান করিমুল্লাহকে গুলি করে হত্যার চেষ্টা করেছে দুর্বৃত্তরা।

জানা যায়, সোমবার দুপুরে উপজেলার পূর্ব সিলোনিয়া এলাকার ভূঞা ব্রিজ সংলগ্ন রবি টাওয়ারের সামনে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় ও দলীয় সূত্র জানায়, উপজেলার কোম্পানী বাজারের ছনুয়া ইউনিয়ন পরিষদে দাফতরিক কাজে যাওয়ার সময় ওই এলাকায় পৌঁছলে তাকে বহনকারী প্রাইভেটকারটিকে কয়েকজন দুর্বৃত্ত ঘিরে ফেলে। এ সময় দুর্বৃত্তরা সিএনজিচালিত একটি অটোরিকশা থেকে ইউপি চেয়ারম্যানকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। তার চিৎকারে স্থানীয় লোকজন এগিয়ে আসলে দুর্বৃত্তরা পালিয়ে যায়।

এলাকাবাসী ধাওয়া করে কয়েকটি মোবাইল, পেট্রোল ও ব্যবহৃত সিএনজি চালিত অটোরিক্সা উদ্ধার করে। খবর পেয়ে করিমুল্লাহ সমর্থকরা ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক অবরোধ করে। পরে ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আবদুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, এ ধরণের ন্যাক্কারজনক ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাই। ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছি।

ফেনী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রাশেদ খান চৌধুরী ঘটনার তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, জড়িতদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।
উল্লেখ্য, এর আগে গত ২০১৪ সালের ২০ মে ফেনী শহরের একাডেমি সড়কে প্রকাশ্যে দিবালোকে একরামকে কুপিয়ে ও গুলি করে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা। এসময় দুর্বৃত্তরা একরামুল হকে বহনকারী মাইক্রোবাসটি আগুনে পুড়িয়ে দেয়।


jamunanews24.com/a.rahim/nayon/16 january 2017
যমুনা নিউজ: ফেনীর ফুলগাজী উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি একরামুল হককে হত্যার পর এবার ফেনী সদর উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি ও ছনুয়া ইউনিয়ন চেয়ারম্যান করিমুল্লাহকে গুলি করে হত্যার চেষ্টা করেছে দুর্বৃত্তরা।
জানা যায়, সোমবার দুপুরে উপজেলার পূর্ব সিলোনিয়া এলাকার ভূঞা ব্রিজ সংলগ্ন রবি টাওয়ারের সামনে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় ও দলীয় সূত্র জানায়, উপজেলার কোম্পানী বাজারের ছনুয়া ইউনিয়ন পরিষদে দাফতরিক কাজে যাওয়ার সময় ওই এলাকায় পৌঁছলে তাকে বহনকারী প্রাইভেটকারটিকে কয়েকজন দুর্বৃত্ত ঘিরে ফেলে। এ সময় দুর্বৃত্তরা সিএনজিচালিত একটি অটোরিকশা থেকে ইউপি চেয়ারম্যানকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। তার চিৎকারে স্থানীয় লোকজন এগিয়ে আসলে দুর্বৃত্তরা পালিয়ে যায়।

এলাকাবাসী ধাওয়া করে কয়েকটি মোবাইল, পেট্রোল ও ব্যবহৃত সিএনজি চালিত অটোরিক্সা উদ্ধার করে। খবর পেয়ে করিমুল্লাহ সমর্থকরা ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক অবরোধ করে। পরে ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আবদুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, এ ধরণের ন্যাক্কারজনক ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাই। ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছি।

ফেনী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রাশেদ খান চৌধুরী ঘটনার তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, জড়িতদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।
উল্লেখ্য, এর আগে গত ২০১৪ সালের ২০ মে ফেনী শহরের একাডেমি সড়কে প্রকাশ্যে দিবালোকে একরামকে কুপিয়ে ও গুলি করে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা। এসময় দুর্বৃত্তরা একরামুল হকে বহনকারী মাইক্রোবাসটি আগুনে পুড়িয়ে দেয়।


jamunanews24.com/a.rahim/nayon/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 19:34:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 19:34:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43192/-
রিজাল ব্যাংকের সঙ্গে সমস্যা মেটার পরেই প্রতিবেদন http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43191/- যমুনা নিউজ: অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছেন, ফিলিপাইনের রিজাল ব্যাংকের সঙ্গে কিছু বিষয় রিজলভ (সমাধান) হলেই বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভের অর্থ চুরি হওয়া সংক্রান্ত তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করা হবে।

সোমবার সচিবালয়ে বিশ্বব্যাংকের একটি প্রতিনিধিদলের সঙ্গে বৈঠকের পর সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এ কথা বলেন।

কয়েক দফা প্রকাশের সময় দিয়েও রিজার্ভ চুরির তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করতে পারেননি অর্থমন্ত্রী।

প্রতিবেদন প্রকাশের সময় হয়েছে কিনা- একজন সাংবাদিক জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, হয় নাই। ফিলিপিন্সের সঙ্গে কিছু বিষয় রিজলভ (সমাধান) হলে করবো।

তিনি বলেন, নিজের দায় এড়িয়ে কেউ এই রিপোর্ট থেকে সুবিধা পাক- সেটা আমি চাই না। রিজাল ব্যাংক চুরির টাকা নিয়ে বাহাদুরি করছে। তারা এটা করতে পারে না। টাকার মালিককে টাকা ফেরত দিতেই হবে। তাদের এটিচিউড গ্রহণযোগ্য না।


jamunanews24.com/ sm/16 january 2017
যমুনা নিউজ: অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছেন, ফিলিপাইনের রিজাল ব্যাংকের সঙ্গে কিছু বিষয় রিজলভ (সমাধান) হলেই বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভের অর্থ চুরি হওয়া সংক্রান্ত তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করা হবে।

সোমবার সচিবালয়ে বিশ্বব্যাংকের একটি প্রতিনিধিদলের সঙ্গে বৈঠকের পর সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এ কথা বলেন।

কয়েক দফা প্রকাশের সময় দিয়েও রিজার্ভ চুরির তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করতে পারেননি অর্থমন্ত্রী।

প্রতিবেদন প্রকাশের সময় হয়েছে কিনা- একজন সাংবাদিক জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, হয় নাই। ফিলিপিন্সের সঙ্গে কিছু বিষয় রিজলভ (সমাধান) হলে করবো।

তিনি বলেন, নিজের দায় এড়িয়ে কেউ এই রিপোর্ট থেকে সুবিধা পাক- সেটা আমি চাই না। রিজাল ব্যাংক চুরির টাকা নিয়ে বাহাদুরি করছে। তারা এটা করতে পারে না। টাকার মালিককে টাকা ফেরত দিতেই হবে। তাদের এটিচিউড গ্রহণযোগ্য না।


jamunanews24.com/ sm/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 19:32:41 BDT Mon, 16 Jan 2017 19:32:41 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43191/-
‘স্বপ্নজাল’ ছবির শুটিং শেষ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43190/- যমুনা নিউজ: ঢাকাই চলচ্চিত্রে হালের আলোচিত নায়িকা পরীমনি অভিনীত ‘স্বপ্নজাল’ ছবির শুটিং চাঁদপুর জেলায় শেষ হয়েছে আজ সোমবার। সেখান থেকে রাতেই ঢাকায় ফিরবেন নির্মতা সেলিম উদ্দিনের দল।

গেল বছর শুরু হয় ‘স্বপ্নজাল’ ছবির শুটিং। এরপর কয়েক দফায় চাঁদপুর, কলকাতাসহ বিভিন্ন লোকেশনে ছবিটির দৃশ্যধারণের কাজ হয়।

ছবিতে জুটি হয়ে অভিনয় করছেন পরীমনি ও নবাগত ইয়াশ রোহান। পরীমনি আশা করছেন, এ ছবিটি বদলে দেবে তার ক্যারিয়ার। 

ছবিটিতে পরীমনি ও রোহান ছাড়াও অভিনয় করবেন ফজলুর রহমান বাবু, শিল্পী সরকার অপু, ওয়াহিদা মল্লিক জলি, ইরেশ যাকের ও প্রসূন আজাদ।

স্বপ্নজাল ছবির সংগীত পরিচালনা করছেন অর্ণব। প্রযোজনায় বেঙ্গল ক্রিয়েশনস।

jamunanews24.com/zobaida/nayon/16 january 2017
যমুনা নিউজ: ঢাকাই চলচ্চিত্রে হালের আলোচিত নায়িকা পরীমনি অভিনীত ‘স্বপ্নজাল’ ছবির শুটিং চাঁদপুর জেলায় শেষ হয়েছে আজ সোমবার। সেখান থেকে রাতেই ঢাকায় ফিরবেন নির্মতা সেলিম উদ্দিনের দল।

গেল বছর শুরু হয় ‘স্বপ্নজাল’ ছবির শুটিং। এরপর কয়েক দফায় চাঁদপুর, কলকাতাসহ বিভিন্ন লোকেশনে ছবিটির দৃশ্যধারণের কাজ হয়।

ছবিতে জুটি হয়ে অভিনয় করছেন পরীমনি ও নবাগত ইয়াশ রোহান। পরীমনি আশা করছেন, এ ছবিটি বদলে দেবে তার ক্যারিয়ার। 

ছবিটিতে পরীমনি ও রোহান ছাড়াও অভিনয় করবেন ফজলুর রহমান বাবু, শিল্পী সরকার অপু, ওয়াহিদা মল্লিক জলি, ইরেশ যাকের ও প্রসূন আজাদ।

স্বপ্নজাল ছবির সংগীত পরিচালনা করছেন অর্ণব। প্রযোজনায় বেঙ্গল ক্রিয়েশনস।

jamunanews24.com/zobaida/nayon/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 19:28:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 19:28:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43190/-
অবৈধভাবে ক্ষমতায় যাওয়ার পথ বন্ধ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43189/- যমুনা নিউজ: অবৈধভাবে ক্ষমতায় যাওয়ার পথ বন্ধ বলে মন্তব্য করেছেন অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান।

রোববার দুপুরে সুনামগঞ্জ মির্জাপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

বতর্মান সরকার দেশের মানুষের কল্যাণে কাজ করছে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, মানুষ এখন জেগে উঠেছে। দেশে উন্নয়নের সময় এসেছে। বাঙালি জাতি অদম্য জাতি। বাংলাদেশকে আর দমিয়ে রাখা যাবে না। বাংলাদেশ এখন বিশ্ব দরবারে মাথা উঁচু করে দাঁড়াচ্ছে।

জয়কলস ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মো. মাসুদ মিয়ার সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সুনামগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির জিএম মো. সোহেল পারভেজ।

jamunanews24.com/RP/manik/ 16 January 2017
যমুনা নিউজ: অবৈধভাবে ক্ষমতায় যাওয়ার পথ বন্ধ বলে মন্তব্য করেছেন অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান।

রোববার দুপুরে সুনামগঞ্জ মির্জাপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

বতর্মান সরকার দেশের মানুষের কল্যাণে কাজ করছে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, মানুষ এখন জেগে উঠেছে। দেশে উন্নয়নের সময় এসেছে। বাঙালি জাতি অদম্য জাতি। বাংলাদেশকে আর দমিয়ে রাখা যাবে না। বাংলাদেশ এখন বিশ্ব দরবারে মাথা উঁচু করে দাঁড়াচ্ছে।

জয়কলস ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মো. মাসুদ মিয়ার সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সুনামগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির জিএম মো. সোহেল পারভেজ।

jamunanews24.com/RP/manik/ 16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 19:20:13 BDT Mon, 16 Jan 2017 19:20:13 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43189/-
বাবা মোস্তাকের মতো বেঈমান নন http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43188/- যমুনা নিউজ: স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, আমার বাবা জীবন দিয়ে প্রমাণ করেছেন, তিনি মোস্তাকের মতো বেঈমান নন। এ জন্যই বাবার শততম জন্ম বার্ষিকীতে মোহাম্মদ আব্দুল হামিদ ও বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শ্রদ্ধাঞ্জলি দিয়েছেন।

মোহাম্মদ নাসিম বলেন, সত্যিকার অর্থে একজন মানুষ হতে হলে বাংলাদেশ, জাতিরজনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব ও শহীদ মনসুর আলীকে জানতে হবে এবং অনুসরণ করতে হবে।

সোমবার দিনভর কাজিপুরের বিভিন্ন এলাকায় তার বাবা শহীদ এম মনসুর আলীর শততম জন্ম বার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত সমাবেশ- দুস্থদের মাঝে কম্বল ও মেধাবী শিক্ষার্থীর মাঝে বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানে এ কথা বলেন।

অনুষ্ঠানে মোহাম্মদ নাসিম শহীদ এম মনসুর আলীর রাজনৈতিক কর্মকাণ্ড ও মানুষের প্রতি অকৃত্রিম ভালবাসার কথা উল্লেখ করে বলেন, আমার বাবা সাধারণ মানুষের মতো জীবন যাপন করতেন। গ্রামের সাধারণ মানুষের খোঁজ খবর নিতেন। তাকে ভালবেসে মানুষ ক্যাপ্টেন বলে ডেকেছেন।

সংবিধান অনুযায়ী ২০১৯ সালে নির্ধারিত সময়ে শেখ হাসিনার অধীনেই জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে বলে মন্তব্য করেছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। আর এ নির্বাচনে জনগণ যে দলকে ভোট দেবে তারাই পরবর্তীতে সরকার গঠন করবেন।

উপজেলা আওয়ামী লীগ অফিস চত্বরে শহীদ এম মনসুর আলী কল্যাণ ট্রাষ্ট্রের বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন কল্যাণ ট্রাষ্ট্রের সাধারণ সম্পাদক খলিলুর রহমান সিরাজী।

অনুষ্ঠানগুলোতে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক শামীম আহমেদ, সিভিল সার্জন ডা. শেখ মো. মনজুর রহমান, শহীদ মনসুর আলী সরকারি মেডিকেল কলেজের প্রিন্সিপ্যাল অধ্যাপক ডা. রেজাউল করিম, স্বাস্থ্য প্রকৌশল বিবাগের নির্বাহী প্রকৌশলী জাকির হোসেন, উপজেলা চেয়ারম্যান মোজাম্মল হক সরকার ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার শফিকুল ইসলাম বক্তব্য রাখেন।

jamunanews24.com/ sm/16 january 2017
যমুনা নিউজ: স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, আমার বাবা জীবন দিয়ে প্রমাণ করেছেন, তিনি মোস্তাকের মতো বেঈমান নন। এ জন্যই বাবার শততম জন্ম বার্ষিকীতে মোহাম্মদ আব্দুল হামিদ ও বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শ্রদ্ধাঞ্জলি দিয়েছেন।

মোহাম্মদ নাসিম বলেন, সত্যিকার অর্থে একজন মানুষ হতে হলে বাংলাদেশ, জাতিরজনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব ও শহীদ মনসুর আলীকে জানতে হবে এবং অনুসরণ করতে হবে।

সোমবার দিনভর কাজিপুরের বিভিন্ন এলাকায় তার বাবা শহীদ এম মনসুর আলীর শততম জন্ম বার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত সমাবেশ- দুস্থদের মাঝে কম্বল ও মেধাবী শিক্ষার্থীর মাঝে বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানে এ কথা বলেন।

অনুষ্ঠানে মোহাম্মদ নাসিম শহীদ এম মনসুর আলীর রাজনৈতিক কর্মকাণ্ড ও মানুষের প্রতি অকৃত্রিম ভালবাসার কথা উল্লেখ করে বলেন, আমার বাবা সাধারণ মানুষের মতো জীবন যাপন করতেন। গ্রামের সাধারণ মানুষের খোঁজ খবর নিতেন। তাকে ভালবেসে মানুষ ক্যাপ্টেন বলে ডেকেছেন।

সংবিধান অনুযায়ী ২০১৯ সালে নির্ধারিত সময়ে শেখ হাসিনার অধীনেই জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে বলে মন্তব্য করেছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। আর এ নির্বাচনে জনগণ যে দলকে ভোট দেবে তারাই পরবর্তীতে সরকার গঠন করবেন।

উপজেলা আওয়ামী লীগ অফিস চত্বরে শহীদ এম মনসুর আলী কল্যাণ ট্রাষ্ট্রের বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন কল্যাণ ট্রাষ্ট্রের সাধারণ সম্পাদক খলিলুর রহমান সিরাজী।

অনুষ্ঠানগুলোতে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক শামীম আহমেদ, সিভিল সার্জন ডা. শেখ মো. মনজুর রহমান, শহীদ মনসুর আলী সরকারি মেডিকেল কলেজের প্রিন্সিপ্যাল অধ্যাপক ডা. রেজাউল করিম, স্বাস্থ্য প্রকৌশল বিবাগের নির্বাহী প্রকৌশলী জাকির হোসেন, উপজেলা চেয়ারম্যান মোজাম্মল হক সরকার ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার শফিকুল ইসলাম বক্তব্য রাখেন।

jamunanews24.com/ sm/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 19:14:09 BDT Mon, 16 Jan 2017 19:14:09 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43188/-
৩০ মিনিটে চেন্নাই থেকে ব্যাঙ্গালুরু http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43187/- যমুনা নিউজ: প্রায় রকেট গতিতে চলে মাত্র ৩০ মিনিটে চেন্নাই থেকে ব্যাঙ্গালুরু পৌঁছবে গাড়ি। শিগগির এই গতিতে যান চলাচল ব্যবস্থা প্রবর্তন করেতে চায় ভারত।

আগামী দিনে মার্কিন সংস্থা হাইপারলুপসের তত্ত্বাবধানে রকেটের গতিতে গাড়ি চালানোর কথা ভাবছে দিল্লি৷ তবে শুরুতে দক্ষিণ ভারতের দুই শহর, চেন্নাই ও ব্যাঙ্গালুরু পাবে এই পরিষেবা৷

পরবর্তীকালে ধাপে ধাপে চেন্নাই-মুম্বাই, পুনে-মুম্বাই, ব্যাঙ্গালুরু-তিরুবনন্তপুরম এই শহরগুলির মধ্যে দিয়েও দ্রুত গতির এই যান চলাফেরা করবে৷ এই বিষয়ে ইতিমধ্যে ভারতের কেন্দ্রীয় সড়ক পরিবহন মন্ত্রণালয়কে চিঠি দিয়ে জানানো হয়েছে বলে মার্কিন ওই সংস্থার তরফে দাবি করা হয়েছে৷ নিজেদের ওবেসাইটেও সেকথা পোস্ট করা হয়েছে প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে৷

তবে মার্কিন সংস্থাটির তরফে দেওয়া প্রস্তাব কতটা সফল হবে তা নিয়ে একটা ধোঁয়াশা তৈরি হয়েছে৷ তার প্রধান কারণই হল ইতিমধ্যে দেশে বুলেট ট্রেন চালানোর কথা ঘোষণা করেছে দিল্লি৷

Jamunanews24.com/kabir/manik/ 16 Jan 2017
যমুনা নিউজ: প্রায় রকেট গতিতে চলে মাত্র ৩০ মিনিটে চেন্নাই থেকে ব্যাঙ্গালুরু পৌঁছবে গাড়ি। শিগগির এই গতিতে যান চলাচল ব্যবস্থা প্রবর্তন করেতে চায় ভারত।

আগামী দিনে মার্কিন সংস্থা হাইপারলুপসের তত্ত্বাবধানে রকেটের গতিতে গাড়ি চালানোর কথা ভাবছে দিল্লি৷ তবে শুরুতে দক্ষিণ ভারতের দুই শহর, চেন্নাই ও ব্যাঙ্গালুরু পাবে এই পরিষেবা৷

পরবর্তীকালে ধাপে ধাপে চেন্নাই-মুম্বাই, পুনে-মুম্বাই, ব্যাঙ্গালুরু-তিরুবনন্তপুরম এই শহরগুলির মধ্যে দিয়েও দ্রুত গতির এই যান চলাফেরা করবে৷ এই বিষয়ে ইতিমধ্যে ভারতের কেন্দ্রীয় সড়ক পরিবহন মন্ত্রণালয়কে চিঠি দিয়ে জানানো হয়েছে বলে মার্কিন ওই সংস্থার তরফে দাবি করা হয়েছে৷ নিজেদের ওবেসাইটেও সেকথা পোস্ট করা হয়েছে প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে৷

তবে মার্কিন সংস্থাটির তরফে দেওয়া প্রস্তাব কতটা সফল হবে তা নিয়ে একটা ধোঁয়াশা তৈরি হয়েছে৷ তার প্রধান কারণই হল ইতিমধ্যে দেশে বুলেট ট্রেন চালানোর কথা ঘোষণা করেছে দিল্লি৷

Jamunanews24.com/kabir/manik/ 16 Jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 19:13:41 BDT Mon, 16 Jan 2017 19:13:41 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43187/-
বন্ধুত্বের নামে প্রতারণা, ব্যবসায়ী মোস্তফার গেল ২৫ লাখ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43186/- যমুনা নিউজ: বন্ধুত্বের পরিচয়ে এক প্রতারককে ২৫ লাখ টাকা ঋণ দিয়ে উল্টো বিপদে পড়েছেন গোলাম মোস্তফা আদর নামে এক ব্যবসায়ী। গোলাম মোস্তফা আদরের পরিবারকে মিথ্যে মামলায় জড়িয়ে অমানবিকভাবে হয়রানি করা হচ্ছে। আর এই প্রতারক হলেন ঋণ গ্রহীতা কথিত ব্যবসায়ী লুৎফর রহমান।

এদিকে আগামীকাল মঙ্গলবার সিএমএম আদালতে এই ২৫ লাখ টাকা ফেরত চেয়ে গোলাম মোস্তফা আদরের করা মামলার শুনানির দিন ধার্য রয়েছে।

গোলাম মোস্তফা আদর জানান, গত ৪ ডিসেম্বর বংশাল থানায় প্রতারক লুৎফর রহমানের বিরুদ্ধে এই মামলাটি দায়ের করেন।

২০ ডিসেম্বর বংশাল থানা পুলিশ লুৎফর রহমানকে আটক করে। কিন্তু থানায় নেয়ার পর পুলিশ তাকে ছেড়ে দেয়। পরদিন ২১ ডিসেম্বর সিএমএম আদালতে আসামি লুৎফর রহমান হাজির হয়ে জামিনের আবেদন জানান। আদালত তার জামিন আবেদন নামঞ্জুর করে জেল হাজতে পাঠানোর আদেশ দেন।

তিনি বলেন, বন্ধুত্বের পরিচয়ে তার কাছ থেকে ২৫ লাখ টাকা ঋণ নিয়েছিল লুৎফর রহমান। কিন্তু এই টাকা নেয়ার পরই লুৎফর রহমান বেপরোয়া হয়ে ওঠেন।

গোলাম মোস্তফা আদর বলেন, পাওনা টাকা ফেরত চাওয়া নিয়ে শুরু হয় বিরোধ। একপর্যায়ে উল্টো মিথ্যা মামলায় তাকে হয়রানি করেন প্রতারক লুৎফর রহমান। এমনকি ওই মিথ্যা মামলায় গোলাম মোস্তফা জেলও খেটেছেন। এখনো তার পরিবারকে নানাভাবে হুমকি দেয়া হচ্ছে।

Jamunanews24.com/kashem/anis/manik/ 16 Jan 2017

যমুনা নিউজ: বন্ধুত্বের পরিচয়ে এক প্রতারককে ২৫ লাখ টাকা ঋণ দিয়ে উল্টো বিপদে পড়েছেন গোলাম মোস্তফা আদর নামে এক ব্যবসায়ী। গোলাম মোস্তফা আদরের পরিবারকে মিথ্যে মামলায় জড়িয়ে অমানবিকভাবে হয়রানি করা হচ্ছে। আর এই প্রতারক হলেন ঋণ গ্রহীতা কথিত ব্যবসায়ী লুৎফর রহমান।

এদিকে আগামীকাল মঙ্গলবার সিএমএম আদালতে এই ২৫ লাখ টাকা ফেরত চেয়ে গোলাম মোস্তফা আদরের করা মামলার শুনানির দিন ধার্য রয়েছে।

গোলাম মোস্তফা আদর জানান, গত ৪ ডিসেম্বর বংশাল থানায় প্রতারক লুৎফর রহমানের বিরুদ্ধে এই মামলাটি দায়ের করেন।

২০ ডিসেম্বর বংশাল থানা পুলিশ লুৎফর রহমানকে আটক করে। কিন্তু থানায় নেয়ার পর পুলিশ তাকে ছেড়ে দেয়। পরদিন ২১ ডিসেম্বর সিএমএম আদালতে আসামি লুৎফর রহমান হাজির হয়ে জামিনের আবেদন জানান। আদালত তার জামিন আবেদন নামঞ্জুর করে জেল হাজতে পাঠানোর আদেশ দেন।

তিনি বলেন, বন্ধুত্বের পরিচয়ে তার কাছ থেকে ২৫ লাখ টাকা ঋণ নিয়েছিল লুৎফর রহমান। কিন্তু এই টাকা নেয়ার পরই লুৎফর রহমান বেপরোয়া হয়ে ওঠেন।

গোলাম মোস্তফা আদর বলেন, পাওনা টাকা ফেরত চাওয়া নিয়ে শুরু হয় বিরোধ। একপর্যায়ে উল্টো মিথ্যা মামলায় তাকে হয়রানি করেন প্রতারক লুৎফর রহমান। এমনকি ওই মিথ্যা মামলায় গোলাম মোস্তফা জেলও খেটেছেন। এখনো তার পরিবারকে নানাভাবে হুমকি দেয়া হচ্ছে।

Jamunanews24.com/kashem/anis/manik/ 16 Jan 2017

]]>
Mon, 16 Jan 2017 19:11:31 BDT Mon, 16 Jan 2017 19:11:31 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43186/-
অ্যাটর্নি জেনারেলের পদে থাকা নিয়ে আদেশ ২৩ জানুয়ারি http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43185/- যমুনা নিউজ: অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলমের পদে থাকার বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে দায়ের করা রিটের বিষয়ে আদেশ আগামী ২৩ জানুয়ারি। সোমবার এ বিষয়ে শুনানি শেষে বিচারপতি নাইমা হায়দার ও বিচারপতি আবু তাহের মোহাম্মদ সাইফুর রহমানের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ আদেশের জন্য এ দিন ধার্য করেন।

আদালতে অ্যাটর্নি জেনারেলের পক্ষে শুনানি করেন সিনিয়র আইনজীবী প্রবীর নিয়োগী, এ এম আমিন উদ্দিন, অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল মুরাদ রেজা। রিটের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী ইউনুছ আলী আকন্দ।

শুনানি শেষে রিটকারী আইনজীবী ইউনুছ বলেন, আজ (সোমবার) রিট আবেদনটির শুনানি শেষ হয়েছে। শুনানিতে আমি সংবিধানের অনুচ্ছেদ ৬৪(১) এবং ৯৪(১) তুলে ধরে বলেছি, প্রধান বিচারপতি এবং অ্যাটর্নি জেনারেল ৬৭ বছর অতিক্রম করলে পদে থাকতে পারেন না। আদালত উভয় পক্ষের শুনানি নিয়ে আগামী ২৩ জানুয়ারি আদেশের জন্য রেখেছেন।

jamunanews24.com/RP/manik/ 16 January 2017
যমুনা নিউজ: অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলমের পদে থাকার বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে দায়ের করা রিটের বিষয়ে আদেশ আগামী ২৩ জানুয়ারি। সোমবার এ বিষয়ে শুনানি শেষে বিচারপতি নাইমা হায়দার ও বিচারপতি আবু তাহের মোহাম্মদ সাইফুর রহমানের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ আদেশের জন্য এ দিন ধার্য করেন।

আদালতে অ্যাটর্নি জেনারেলের পক্ষে শুনানি করেন সিনিয়র আইনজীবী প্রবীর নিয়োগী, এ এম আমিন উদ্দিন, অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল মুরাদ রেজা। রিটের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী ইউনুছ আলী আকন্দ।

শুনানি শেষে রিটকারী আইনজীবী ইউনুছ বলেন, আজ (সোমবার) রিট আবেদনটির শুনানি শেষ হয়েছে। শুনানিতে আমি সংবিধানের অনুচ্ছেদ ৬৪(১) এবং ৯৪(১) তুলে ধরে বলেছি, প্রধান বিচারপতি এবং অ্যাটর্নি জেনারেল ৬৭ বছর অতিক্রম করলে পদে থাকতে পারেন না। আদালত উভয় পক্ষের শুনানি নিয়ে আগামী ২৩ জানুয়ারি আদেশের জন্য রেখেছেন।

jamunanews24.com/RP/manik/ 16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 19:08:31 BDT Mon, 16 Jan 2017 19:08:31 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43185/-
দাউদের সঙ্গে দুবার দেখা করেন ঋষি কাপুর http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43184/- যমুনা নিউজ: মুম্বাই ডন দাউদ ইব্রাহিমের সঙ্গে কমপক্ষে দুবার দেখা করেছেন ভারতের কিংবদন্তি অভিনেতা ঋষি কাপুর। নিজের লেখা ‘খুললাম খুল্লা-আনসেন্সর্ড’ বইতে তিনি একথা লিখেছেন।

ঋষি কাপুর লিখেছেন, দাউদ ইব্রাহিমের সঙ্গে প্রথম দেখা হয় ১৯৮৮ সালে দুবাইতে। আশা ভোঁসলে-রাহুল দেব বর্মনের অনুষ্ঠানের জন্যই ঋষি তখন তার এক বন্ধুর সঙ্গে দুবাইতে ছিলেন। দাউদের এক লোক ঋষি কাপুরকে দেখে এগিয়ে আসেন এবং একটি ফোন দিয়ে বলেন, দাউদ সাব আপনার সঙ্গে কথা বলতে চান।

তখন ঋষি কাপুরকে নিজের বাড়িতে আসার নিমন্ত্রণ জানান দাউদ। সঙ্গে সঙ্গে ওই লোক ঋষি কাপুর ও তার বন্ধুকে গাড়িতে করে নিয়ে যান দাউদের বাড়িতে। বাড়িতে পৌঁছলে দাউদ তাদের চা ও বিস্কুট খেতে দেন। ঋষির সঙ্গে আড্ডায় দাউদ নিজের বহু অপরাধমূলক কাজের কথাও তাকে বলেন, সঙ্গে এও বলেন যে সেই কাজগুলির জন্য তার কোনও অনুশোচনা নেই। এরপর দাউদের বাড়ি থেকে বেরোনর সময় দাউদ ঋষিকে ডেকে বলেন, কখনো কিছুর প্রয়োজন হলে, টাকা বা যা কিছু, আমাকে নির্দ্বিধায় জিজ্ঞাসা করবেন। এই প্রস্তাবে কোনও ইতিবাচক উত্তর দেননি ঋষি কাপুর।

এরপর আবার ১৯৮৯ সালে দুবাইতেই দাউদের সঙ্গে দেখা হ্য় তার। দুবাই এর এক লেবানিজ দোকানে স্ত্রী নীতুর সঙ্গে জুতো কিনতে গেছিলেন ঋষি কাপুর। তখন সেখানে দাউদও উপস্থিত ছিলেন। তার সঙ্গে ছিল ৮ জন রক্ষী। দাউদের হাতে একটি মোবাইল ফোনও ছিল। এবারও দাউদ ঋষিকে দোকান থেকে কিছু কিনে দিতে চান। আবারও ঋষি না করে দেন দাউদের প্রস্তাবে। তখন দাউদ নিজের মোবাইল ফোন নম্বর দেন ঋষিকে। কিন্তু ভারতে তখনও মোবাইলের চল না আসায় ঋষি তাকে কোনও ফোন নম্বর দেননি।

দাউদ ইব্রাহিম ১৯৯৩ সাল থেকে ভারতবর্ষে একের পর এক দুর্ঘটনা ও অপরাধমূলক ঘটনা ঘটিয়েছেন। যতবারই দেখা হয়েছে, অত্যন্ত ভদ্র ব্যবহার করেছেন বলে বইটিতে লিখেছেন ঋষি কাপুর। কিন্তু তিনি বুঝতে পারেন না যে হঠাৎ তিনি ভারতে এত অপরাধমূলক কাজ ঘটালেন কেন। তিনি লেখেন, দাউদ সবসময়ই আমার সঙ্গে ভালো ব্যবহার করেছেন। কিন্তু সব খুব তাড়াতাড়ি বদলে গেল। আমি জানিনা ও কেন আমার দেশের সঙ্গে এমন করা শুরু করল। সেই জুতোর দোকানে দেখা হওয়ার পর আর আমার আর ওর সঙ্গে কোনও কথা হয়নি।

Jamunanews24.com/kabir/manik/ 16 Jan 2017
যমুনা নিউজ: মুম্বাই ডন দাউদ ইব্রাহিমের সঙ্গে কমপক্ষে দুবার দেখা করেছেন ভারতের কিংবদন্তি অভিনেতা ঋষি কাপুর। নিজের লেখা ‘খুললাম খুল্লা-আনসেন্সর্ড’ বইতে তিনি একথা লিখেছেন।

ঋষি কাপুর লিখেছেন, দাউদ ইব্রাহিমের সঙ্গে প্রথম দেখা হয় ১৯৮৮ সালে দুবাইতে। আশা ভোঁসলে-রাহুল দেব বর্মনের অনুষ্ঠানের জন্যই ঋষি তখন তার এক বন্ধুর সঙ্গে দুবাইতে ছিলেন। দাউদের এক লোক ঋষি কাপুরকে দেখে এগিয়ে আসেন এবং একটি ফোন দিয়ে বলেন, দাউদ সাব আপনার সঙ্গে কথা বলতে চান।

তখন ঋষি কাপুরকে নিজের বাড়িতে আসার নিমন্ত্রণ জানান দাউদ। সঙ্গে সঙ্গে ওই লোক ঋষি কাপুর ও তার বন্ধুকে গাড়িতে করে নিয়ে যান দাউদের বাড়িতে। বাড়িতে পৌঁছলে দাউদ তাদের চা ও বিস্কুট খেতে দেন। ঋষির সঙ্গে আড্ডায় দাউদ নিজের বহু অপরাধমূলক কাজের কথাও তাকে বলেন, সঙ্গে এও বলেন যে সেই কাজগুলির জন্য তার কোনও অনুশোচনা নেই। এরপর দাউদের বাড়ি থেকে বেরোনর সময় দাউদ ঋষিকে ডেকে বলেন, কখনো কিছুর প্রয়োজন হলে, টাকা বা যা কিছু, আমাকে নির্দ্বিধায় জিজ্ঞাসা করবেন। এই প্রস্তাবে কোনও ইতিবাচক উত্তর দেননি ঋষি কাপুর।

এরপর আবার ১৯৮৯ সালে দুবাইতেই দাউদের সঙ্গে দেখা হ্য় তার। দুবাই এর এক লেবানিজ দোকানে স্ত্রী নীতুর সঙ্গে জুতো কিনতে গেছিলেন ঋষি কাপুর। তখন সেখানে দাউদও উপস্থিত ছিলেন। তার সঙ্গে ছিল ৮ জন রক্ষী। দাউদের হাতে একটি মোবাইল ফোনও ছিল। এবারও দাউদ ঋষিকে দোকান থেকে কিছু কিনে দিতে চান। আবারও ঋষি না করে দেন দাউদের প্রস্তাবে। তখন দাউদ নিজের মোবাইল ফোন নম্বর দেন ঋষিকে। কিন্তু ভারতে তখনও মোবাইলের চল না আসায় ঋষি তাকে কোনও ফোন নম্বর দেননি।

দাউদ ইব্রাহিম ১৯৯৩ সাল থেকে ভারতবর্ষে একের পর এক দুর্ঘটনা ও অপরাধমূলক ঘটনা ঘটিয়েছেন। যতবারই দেখা হয়েছে, অত্যন্ত ভদ্র ব্যবহার করেছেন বলে বইটিতে লিখেছেন ঋষি কাপুর। কিন্তু তিনি বুঝতে পারেন না যে হঠাৎ তিনি ভারতে এত অপরাধমূলক কাজ ঘটালেন কেন। তিনি লেখেন, দাউদ সবসময়ই আমার সঙ্গে ভালো ব্যবহার করেছেন। কিন্তু সব খুব তাড়াতাড়ি বদলে গেল। আমি জানিনা ও কেন আমার দেশের সঙ্গে এমন করা শুরু করল। সেই জুতোর দোকানে দেখা হওয়ার পর আর আমার আর ওর সঙ্গে কোনও কথা হয়নি।

Jamunanews24.com/kabir/manik/ 16 Jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 19:05:56 BDT Mon, 16 Jan 2017 19:05:56 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43184/-
স্থলমাইন বিস্ফোরণে জুম চাষী আহত http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43183/- যমুনা নিউজ: বান্দরবানে রুমা উপজেলার রেমাক্রী প্রাংসা ইউনিয়নের চৈক্ষ্যং পাড়ার এক জুম চাষী স্থল 'মাইন' বিস্ফোরণে গুরুতর আহত হয়েছেন। তার নাম ভানরাম বম (৩২)। রোববার এ ঘটনা ঘটে।

আহত ভানরামকে উদ্ধার করে সোমবার প্রথমে রুমা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও পরে অবস্থার অবনতি হলে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, রোববার রুমা উপজেলার রেমাক্রী প্রাংসা ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ডের তিন আদিবাসী জুম চাষী মিয়ানমারের সীমান্ত ৭১-৭২ পিলারের সংলগ্ন এলাকায় জুম চাষের স্থান নির্বাচন করতে জঙ্গলে যান। সেখানে সীমান্তের কাছে মাইন বিস্ফোরণে ভানরাম বম (৩২) আহত হন। পরে বমের সঙ্গীরা তাকে উদ্ধার করে রুমা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করায়। সেখানে তার অবস্থার অবনতি ঘটলে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

ওই ইউনিয়নের সাবেক সদস্য লাল এং লিয়ান বম জানান, জঙ্গলে স্থল মাইন দেখতে পাওয়া যায় না। এ কারণে জুম চাষ করতে গিয়ে অনেক চাষী আহত হচ্ছেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করে রুমা থানার ওসি মো. শফিকুল ইসলাম শফিক জানান, রেমাক্রী প্রাংসা এলাকার মায়ানমার সীমান্তে বাংলাদেশের অভ্যন্তরে কে বা কারা স্থল মাইন সদৃশ উচ্চমানের বিস্ফোরক পুঁতে রাখে। এতে বিস্ফোণে প্রায়ই লোকজন আহত হন।

jamunanews24.com/ sm/16 january 2017
যমুনা নিউজ: বান্দরবানে রুমা উপজেলার রেমাক্রী প্রাংসা ইউনিয়নের চৈক্ষ্যং পাড়ার এক জুম চাষী স্থল 'মাইন' বিস্ফোরণে গুরুতর আহত হয়েছেন। তার নাম ভানরাম বম (৩২)। রোববার এ ঘটনা ঘটে।

আহত ভানরামকে উদ্ধার করে সোমবার প্রথমে রুমা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও পরে অবস্থার অবনতি হলে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, রোববার রুমা উপজেলার রেমাক্রী প্রাংসা ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ডের তিন আদিবাসী জুম চাষী মিয়ানমারের সীমান্ত ৭১-৭২ পিলারের সংলগ্ন এলাকায় জুম চাষের স্থান নির্বাচন করতে জঙ্গলে যান। সেখানে সীমান্তের কাছে মাইন বিস্ফোরণে ভানরাম বম (৩২) আহত হন। পরে বমের সঙ্গীরা তাকে উদ্ধার করে রুমা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করায়। সেখানে তার অবস্থার অবনতি ঘটলে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

ওই ইউনিয়নের সাবেক সদস্য লাল এং লিয়ান বম জানান, জঙ্গলে স্থল মাইন দেখতে পাওয়া যায় না। এ কারণে জুম চাষ করতে গিয়ে অনেক চাষী আহত হচ্ছেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করে রুমা থানার ওসি মো. শফিকুল ইসলাম শফিক জানান, রেমাক্রী প্রাংসা এলাকার মায়ানমার সীমান্তে বাংলাদেশের অভ্যন্তরে কে বা কারা স্থল মাইন সদৃশ উচ্চমানের বিস্ফোরক পুঁতে রাখে। এতে বিস্ফোণে প্রায়ই লোকজন আহত হন।

jamunanews24.com/ sm/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 19:03:26 BDT Mon, 16 Jan 2017 19:03:26 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43183/-
বিশেষ অভিযান: রাজশাহীতে গ্রেফতার ৪১ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43181/- যমুনা নিউজ: রাজশাহী মহানগরীর বিভিন্ন স্থানে বিশেষ অভিযানে গ্রেফতার হওয়া ৪১ জনের জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত।

গ্রেফতারদের মধ্যে বিভিন্ন মামলায় ওয়ারেন্টভুক্ত আসামি ছাড়াও মাদকসেবী ও মাদক ব্যবসায়ী রয়েছে বলে পুলিশের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

এর আগে রোববার দিবাগত রাতে রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশ (আরএমপি) পরিচালিত বিশেষ অভিযানে নগরীর বিভিন্ন স্থান থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

বিশেষ এই অভিযান চলমান থাকবে বলে আরএমপি সূত্রে জানা গেছে।

jamunanews24.com/hasib/RP/manik/ 16 January 2017
যমুনা নিউজ: রাজশাহী মহানগরীর বিভিন্ন স্থানে বিশেষ অভিযানে গ্রেফতার হওয়া ৪১ জনের জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত।

গ্রেফতারদের মধ্যে বিভিন্ন মামলায় ওয়ারেন্টভুক্ত আসামি ছাড়াও মাদকসেবী ও মাদক ব্যবসায়ী রয়েছে বলে পুলিশের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

এর আগে রোববার দিবাগত রাতে রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশ (আরএমপি) পরিচালিত বিশেষ অভিযানে নগরীর বিভিন্ন স্থান থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

বিশেষ এই অভিযান চলমান থাকবে বলে আরএমপি সূত্রে জানা গেছে।

jamunanews24.com/hasib/RP/manik/ 16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 19:00:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 19:00:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43181/-
মোবাইল চলচ্চিত্র চূড়ান্ত http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43182/- যমুনা নিউজ: বাংলাদেশে এই প্রথম বারের মতো আয়োজিত হলো আন্তর্জাতিক মোবাইল চলচ্চিত্র প্রতিযোগীতা। এ প্রতিযোগীতার নাম দেওয়া হয়েছে ‘সিনেমাস্কোপ মোবাইল ফিল্মি কম্পিটিশিন ২০১৭’ (সিএমেএসি)। এটি করেছেন ইউনিভার্সিটি অব লিবারেল আর্টস বাংলাদেশ।

এই প্রতিযোগিতায় স্থান পাচ্ছে মোবাইল ফোনে ধারণকৃত স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র। আয়োজকরা জানান, প্রতিযোগিতায় চলচ্চিত্র মূল্যায়নের কাজ শেষ হয়েছে। ৬টি চলচ্চিত্র বাছাই করেছেন বিচারকরা।

বিচারক হিসেবে আছেন দেশের খ্যাতনামা তিন চলচ্চিত্রকার-সমালোচক মতিন রহমান, প্রসুন রহমান ও বিধান রিবেরিও।

বৃহস্পতিবার ইউল্যাব ক্যাম্পাসে চলচ্চিত্র বাছাইয়ের কাজটি হয়। তিন বিচারক ছাড়াও সেখানে উপস্থিত ছিলেন সিএমএফসি উপদেষ্টা মুহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন এবং পরিচালক মহিম আহমেদ নাঈম।

৮ দেশের ২৮টি চলচ্চিত্র থেকে উৎসবে প্রদর্শনের ৬টি ছবি নির্বাচিত করা হয়েছে। আগামী ২৮ জানুয়ারি নির্বাচিত সব ছবি ইউল্যাব অডিটোরিয়ামে প্রদর্শন করা হবে।

jamunanews24.com/zobaida/nayon/16 january 2017
যমুনা নিউজ: বাংলাদেশে এই প্রথম বারের মতো আয়োজিত হলো আন্তর্জাতিক মোবাইল চলচ্চিত্র প্রতিযোগীতা। এ প্রতিযোগীতার নাম দেওয়া হয়েছে ‘সিনেমাস্কোপ মোবাইল ফিল্মি কম্পিটিশিন ২০১৭’ (সিএমেএসি)। এটি করেছেন ইউনিভার্সিটি অব লিবারেল আর্টস বাংলাদেশ।

এই প্রতিযোগিতায় স্থান পাচ্ছে মোবাইল ফোনে ধারণকৃত স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র। আয়োজকরা জানান, প্রতিযোগিতায় চলচ্চিত্র মূল্যায়নের কাজ শেষ হয়েছে। ৬টি চলচ্চিত্র বাছাই করেছেন বিচারকরা।

বিচারক হিসেবে আছেন দেশের খ্যাতনামা তিন চলচ্চিত্রকার-সমালোচক মতিন রহমান, প্রসুন রহমান ও বিধান রিবেরিও।

বৃহস্পতিবার ইউল্যাব ক্যাম্পাসে চলচ্চিত্র বাছাইয়ের কাজটি হয়। তিন বিচারক ছাড়াও সেখানে উপস্থিত ছিলেন সিএমএফসি উপদেষ্টা মুহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন এবং পরিচালক মহিম আহমেদ নাঈম।

৮ দেশের ২৮টি চলচ্চিত্র থেকে উৎসবে প্রদর্শনের ৬টি ছবি নির্বাচিত করা হয়েছে। আগামী ২৮ জানুয়ারি নির্বাচিত সব ছবি ইউল্যাব অডিটোরিয়ামে প্রদর্শন করা হবে।

jamunanews24.com/zobaida/nayon/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 19:00:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 19:00:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43182/-
সাংসদ আমানুরের জামিন আদেশ বুধবার http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43179/- যমুনা নিউজ: টাঙ্গাইলের আওয়ামী লীগ নেতা ও মুক্তিযোদ্ধা ফারুক আহমেদ হত্যা মামলায় অভিযুক্ত সাংসদ আমানুর রহমান খানের করা আপিল আবেদনের ওপর আগামী বুধবার আদেশের দিন ধার্য করেছেন হাইকোর্ট।

সাংসদ আমানুরের জামিন আবেদনের শুনানি শেষে আজ সোমবার বিচারপতি শেখ আবদুল আউয়াল ও বিচারপতি মো. খসরুজ্জামানের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের বেঞ্চ এ আদেশের দিন ধার্য করেন।

এদিনই টাঙ্গাইল জেলা আওয়ামী লীগ রানাকে দল থেকে বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নেয়। রানার সঙ্গে আসামি তার তিন ভাইকেও বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত হয় ক্ষমতাসীন দলের জেলা কমিটির সভায়।

জামিন আবেদন নিয়ে হাইকোর্টে রানার পক্ষে শুনানি করেন জ‌্যেষ্ঠ আইনজীবী আব্দুল বাসেত মজুমদার ও বশির আহমেদ। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম। তাকে সহযোগিতা করেন সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল আমিনুর রহমান চৌধুরী টিকু।

আমিনুর রহমান বলেন, আমানুর রহমান খান রানার জামিনের বিষয়ে বিস্তারিত শুনানি হয়েছে। তাকে যে দল থেকে (আওয়ামী লীগ) বহিষ্কার করা হয়েছে, শুনানিতে সেটিও তুলে ধরা হয়েছে। শুনানি নিয়ে আদালত ডে আফটার টুমোরো আদেশের জন্য রেখেছেন।

গত বছরের ১১ ডিসেম্বর বিচারপতি ফরিদ আহাম্মদ ও বিচারপতি এ কে এম সাহিদুল হকের হাইকোর্ট বেঞ্চ রানার জামিন আবেদন কার্যতালিকা থেকে বাদ দিয়েছিল।

তার আগে গত ২৮ নভেম্বরও সৈয়দ মোহাম্মদ দস্তগীর হোসেন ও বিচারপতি আতাউর রহমান খানের হাইকোর্ট বেঞ্চ রানার জামিন আবেদন কার্যতালিকা থেকে বাদ দেয়।

তারও আগে গত বছরের ৯ অক্টোবর বিচারপতি মো. আবু জাফর সিদ্দিকী ও বিচারপতি খিজির আহমেদ চৌধুরীর হাইকোর্ট বেঞ্চ ক্ষমতাসীন দলের এই এমপির জামিন আবেদন খারিজ করে দেয়।

আওয়ামী লীগের টাঙ্গাইল জেলা কমিটির সদস্য ফারুক আহমেদকে ২০১৩ সালের ১৮ জানুয়ারি গুলি চালিয়ে হত্যা করা হয়।

এ ঘটনায় দায়ের করা মামলায় আমানুর গত বছরের ১৮ সেপ্টেম্বর আদালতে আত্মসমর্পণ করলে তাকে জেলহাজতে পাঠানোর আদেশ দেয় বিচারক।

jamunanews24.com/ sm/16 january 2017
যমুনা নিউজ: টাঙ্গাইলের আওয়ামী লীগ নেতা ও মুক্তিযোদ্ধা ফারুক আহমেদ হত্যা মামলায় অভিযুক্ত সাংসদ আমানুর রহমান খানের করা আপিল আবেদনের ওপর আগামী বুধবার আদেশের দিন ধার্য করেছেন হাইকোর্ট।

সাংসদ আমানুরের জামিন আবেদনের শুনানি শেষে আজ সোমবার বিচারপতি শেখ আবদুল আউয়াল ও বিচারপতি মো. খসরুজ্জামানের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের বেঞ্চ এ আদেশের দিন ধার্য করেন।

এদিনই টাঙ্গাইল জেলা আওয়ামী লীগ রানাকে দল থেকে বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নেয়। রানার সঙ্গে আসামি তার তিন ভাইকেও বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত হয় ক্ষমতাসীন দলের জেলা কমিটির সভায়।

জামিন আবেদন নিয়ে হাইকোর্টে রানার পক্ষে শুনানি করেন জ‌্যেষ্ঠ আইনজীবী আব্দুল বাসেত মজুমদার ও বশির আহমেদ। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম। তাকে সহযোগিতা করেন সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল আমিনুর রহমান চৌধুরী টিকু।

আমিনুর রহমান বলেন, আমানুর রহমান খান রানার জামিনের বিষয়ে বিস্তারিত শুনানি হয়েছে। তাকে যে দল থেকে (আওয়ামী লীগ) বহিষ্কার করা হয়েছে, শুনানিতে সেটিও তুলে ধরা হয়েছে। শুনানি নিয়ে আদালত ডে আফটার টুমোরো আদেশের জন্য রেখেছেন।

গত বছরের ১১ ডিসেম্বর বিচারপতি ফরিদ আহাম্মদ ও বিচারপতি এ কে এম সাহিদুল হকের হাইকোর্ট বেঞ্চ রানার জামিন আবেদন কার্যতালিকা থেকে বাদ দিয়েছিল।

তার আগে গত ২৮ নভেম্বরও সৈয়দ মোহাম্মদ দস্তগীর হোসেন ও বিচারপতি আতাউর রহমান খানের হাইকোর্ট বেঞ্চ রানার জামিন আবেদন কার্যতালিকা থেকে বাদ দেয়।

তারও আগে গত বছরের ৯ অক্টোবর বিচারপতি মো. আবু জাফর সিদ্দিকী ও বিচারপতি খিজির আহমেদ চৌধুরীর হাইকোর্ট বেঞ্চ ক্ষমতাসীন দলের এই এমপির জামিন আবেদন খারিজ করে দেয়।

আওয়ামী লীগের টাঙ্গাইল জেলা কমিটির সদস্য ফারুক আহমেদকে ২০১৩ সালের ১৮ জানুয়ারি গুলি চালিয়ে হত্যা করা হয়।

এ ঘটনায় দায়ের করা মামলায় আমানুর গত বছরের ১৮ সেপ্টেম্বর আদালতে আত্মসমর্পণ করলে তাকে জেলহাজতে পাঠানোর আদেশ দেয় বিচারক।

jamunanews24.com/ sm/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 18:49:49 BDT Mon, 16 Jan 2017 18:49:49 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43179/-
গাইবান্ধায় গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43180/- যমুনা নিউজ: গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে মুন্নি বেগম (১৯) নামে এক গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

সোমবার(১৬জানুয়ারি) দুপুরে উপজেলার মহিমাগঞ্জ ইউনিয়নের গোপালপুর গ্রাম থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়।

নিহত মুন্নি বেগম ওই গ্রামের চাঁদ মিয়ার ছেলে এবং ওয়েল্ডিং ব্যবসায়ী আশিক মিয়ার স্ত্রী। তার বাবার বাড়ি গাইবান্ধা জেলার গোবিন্দগঞ্জের শোলাগাড়ি গ্রামে।

এ বিষয়ে গোবিন্দগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুব্রত কুমার জানান, প্রায় তিন মাস আগে পারিবারিকভাবে মুন্নি ও আশিকের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে স্বামীর বাড়িতে থাকতেন তিনি। সোমবার সকালে তার স্বামী আশিক মহিমাগঞ্জ বাজারে ওয়েল্ডিংয়ের দোকানে যান। এরপর হঠাৎ নিজ ঘরের তীরের সঙ্গে মুন্নির ঝুলন্ত লাশ দেখে পুলিশকে খবর দেয় তার পরিবারের সদস্যরা।

পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য গাইবান্ধা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠায়। ওসি জানান, এটি হত্যা নাকি আত্মহত্যা তা ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন পেলেই জানা যাবে।


jamunanews24.com/forhad/rasib/nayon/16 january 2017
যমুনা নিউজ: গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে মুন্নি বেগম (১৯) নামে এক গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

সোমবার(১৬জানুয়ারি) দুপুরে উপজেলার মহিমাগঞ্জ ইউনিয়নের গোপালপুর গ্রাম থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়।

নিহত মুন্নি বেগম ওই গ্রামের চাঁদ মিয়ার ছেলে এবং ওয়েল্ডিং ব্যবসায়ী আশিক মিয়ার স্ত্রী। তার বাবার বাড়ি গাইবান্ধা জেলার গোবিন্দগঞ্জের শোলাগাড়ি গ্রামে।

এ বিষয়ে গোবিন্দগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুব্রত কুমার জানান, প্রায় তিন মাস আগে পারিবারিকভাবে মুন্নি ও আশিকের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে স্বামীর বাড়িতে থাকতেন তিনি। সোমবার সকালে তার স্বামী আশিক মহিমাগঞ্জ বাজারে ওয়েল্ডিংয়ের দোকানে যান। এরপর হঠাৎ নিজ ঘরের তীরের সঙ্গে মুন্নির ঝুলন্ত লাশ দেখে পুলিশকে খবর দেয় তার পরিবারের সদস্যরা।

পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য গাইবান্ধা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠায়। ওসি জানান, এটি হত্যা নাকি আত্মহত্যা তা ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন পেলেই জানা যাবে।


jamunanews24.com/forhad/rasib/nayon/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 18:49:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 18:49:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43180/-
ফাঁসি কার্যকর হলেই জাতি দায় মুক্তি হবে http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43178/-
যমুনা নিউজ: নারায়নগঞ্জ সাত খুন হত্যাকান্ডে তছনছ হয়ে গেছে সাতটি পরিবার। কেউ হারিয়েছে বাবা,কেউ হয়েছে বিধবা, আবার কেউ সন্তানও হারিয়েছেন। অবশেষে ৩ বছর পর সেই সাত পরিবার কিছুটা তৃপ্তি পেয়েছেন। তবে এই সাত পরিবার গণমাধ্যমকে প্রতিক্রিয়ায় জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজেও স্বজনহারা। তাই তিনি স্বজন হারানোর কষ্ট বোঝেন। আমরা আশা করবো শীর্ষ এই খুনিদের ফাঁসি কার্যকর করে জাতিকে দায় মুক্তি দিবেন তিনি।

৭ খুন মামলার রায়ে ২৩ আসামির মৃত্যুদণ্ড ও ৯ জনের বিভিন্ন মেয়াদের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। এই রায় নিয়ে প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন সাত পরিবারের স্বজনরা।

নিহত আইনজীবী চন্দন সরকারের গাড়িচালক ইব্রাহিমের বাবা বলেন, ‘রায়ে আমি খুশি না। কারণ এই ঘটনা মূল আসামি মজিবর এখনও ধরা পড়েনি। মজিবর আর মজিবরের ছেলে হাক্কা এই দুজনকে শাস্তি দিলে সন্তুষ্ট হতাম। তবুও কিছুটা তৃপ্তি পাবো যদি এদের খুব দ্রুতই ফাঁসি কার্যকর হয়।

নিহত প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলামের শ্বশুর শহীদ চেয়ারম্যান জানান, রায়ে আমি আংশিক খুশি। মূল পরিকল্পনাকারী হিসেবে মামলার এজাহারে যাদের নাম দিয়েছিলেন তাদের মধ্যে কয়েকজনের নাম কেটে চার্জশিট দেওয়া হয়েছে। তিন বলেন, ‘ইকবাল ও আশিক মূল পরিকল্পনাকারী ছিল। তবে এখন এসের ফাঁসি হলেই জাতি দায় মুক্তি পাবে।

নিহত প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলামের স্ত্রী সেলিনা ইসলাম বিউটি বলেন, ‘আমি রায়ে সন্তুষ্ট। আমরা আশা করবো উচ্চ আদালতে রায়টি বহাল থাকবে এবং দ্রুত রায় কার্যকর হবে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজেও স্বজনহারা। তাই স্বজন হারানোর কষ্ট তিনি নিজেও বোঝেন। আমি প্রধানমন্ত্রী কাছে কৃতজ্ঞ এবং পাশাপাশি তাকে আহ্বান জানাবো, রায় কার্যকর করার ব্যাপারে তিনি যেন প্রয়োজনীয় দিক নির্দেশনা প্রদান করেন।’

চন্দন সরকার মেয়ে সুষমিতা সরকার বলেন, ‘রায়ে আমি সন্তুষ্ট। উচ্চ আদালতে রায় বহাল থাকবে সেটি আমাদের প্রত্যাশা।

এছাড়া নিহত স্বপনের ভাই মিজানুর রহমান ও তাজুলের বাবা আবুল খায়ের তারাও এ রায়ে সন্তুষ্ট প্রকাশ করেছেন।

রাষ্ট্রপক্ষের আইজীবী পিপি অ্যাডভোকেট ওয়াজেদ আলী খোকন বলেন, আদালতে নির্ভুল ও গ্রহণযোগ্য রায় ঘোষণা করা হয়েছে। আমার প্রত্যাশা উচ্চ আদালতেও রায় বহাল থাকবে। এতে ভুক্তভোগীরা ন্যায় বিচার পাবে। তিনি আরও বলেন, ‘মামলা পরিচালনা করতে গিয়ে আমি কোনও চাপ অনুভব করি নাই। এই রায়ে বাংলাদেশ তো বটেই, সারা বিশ্বের মানুষের দৃষ্টি ছিল।’

বাদীপক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন বলেন, ‘আমরা আশা করবো উচ্চ আদালতে রায়টি বহাল থাকবে। এই মামলা পরিচালনা করতে গিয়ে অনেক সংগ্রাম করতে হয়েছে। আমারা আশা কববো উচ্চ আদালতেও যথার্থ ন্যায় বিচার পাবো।

এদিকে অসন্তোষ প্রকাশ করে আসামিপক্ষের আইনজীবী সাহাবুদ্দিন বলেন, আবেগপ্রবণ হয়ে রায় দিয়েছেন আদালত। আমার মক্কেল ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেয় নাই। আমরা ন্যায়বিচার থেকে বঞ্চিত হয়েছি।’

আসামিপক্ষের আরেক আইনজীবী সুলতানুজ্জামান বলেন, ‘আমার মক্কেল মনে করেন এই আদালতে তিনি ন্যায়বিচার পাননি। আমরা উচ্চ আদালতে যাবো।’

উল্লেখ্য, ২০১৪ সালের ২৭ এপ্রিল নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লায় খান সাহেব ওসমান আলী জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামের সামনে থেকে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের ২নং ওয়ার্ডের তৎকালীন কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র-২ নজরুল ইসলাম, তার বন্ধু মনিরুজ্জামান স্বপন, তাজুল ইসলাম, লিটন, নজরুলের গাড়িচালক জাহাঙ্গীর আলম, আইনজীবী চন্দন কুমার সরকার ও তার গাড়িচালক ইব্রাহিম অপহৃত হন। পরদিন ২৮ এপ্রিল ফতুল্লা মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন নজরুল ইসলামের স্ত্রী। ওই মামলায় সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি নূর হোসেনকে প্রধান করে ৬জনকে আসামি করা হয়। এছাড়া আইনজীবী চন্দন সরকারের মেয়ের জামাই বিজয় কুমার পাল বাদী হয়ে নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লা মডেল থানায় আরও একটি মামলা করেন। ৩০ এপ্রিল বিকেলে শীতলক্ষ্যা নদী থেকে ৬ জন এবং ১ মে সকালে একজনের লাশ উদ্ধার করা হয়। পরে স্বজনরা লাশগুলো শনাক্ত করেন।

মামলার চার্জশিটভুক্ত ৩৫ আসামির মধ্যে ১২ জন পলাতক রয়েছেন। মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামিদের মধ্যে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের সাবেক কাউন্সিলর নূর হোসেন, র‌্যাব-১১-এর সাবেক অধিনায়ক লে. কর্নেল (অব.) তারেক সাঈদ মুহাম্মদ, মেজর (অব.) আরিফ হোসেন, নৌ-বাহিনীর লেফটেন্যান্ট কমান্ডার এম এম রানা রয়েছেন।

jamunanews24.com/a.rahim/16 january 2017
যমুনা নিউজ: নারায়নগঞ্জ সাত খুন হত্যাকান্ডে তছনছ হয়ে গেছে সাতটি পরিবার। কেউ হারিয়েছে বাবা,কেউ হয়েছে বিধবা, আবার কেউ সন্তানও হারিয়েছেন। অবশেষে ৩ বছর পর সেই সাত পরিবার কিছুটা তৃপ্তি পেয়েছেন। তবে এই সাত পরিবার গণমাধ্যমকে প্রতিক্রিয়ায় জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজেও স্বজনহারা। তাই তিনি স্বজন হারানোর কষ্ট বোঝেন। আমরা আশা করবো শীর্ষ এই খুনিদের ফাঁসি কার্যকর করে জাতিকে দায় মুক্তি দিবেন তিনি।
৭ খুন মামলার রায়ে ২৩ আসামির মৃত্যুদণ্ড ও ৯ জনের বিভিন্ন মেয়াদের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। এই রায় নিয়ে প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন সাত পরিবারের স্বজনরা।

নিহত আইনজীবী চন্দন সরকারের গাড়িচালক ইব্রাহিমের বাবা বলেন, ‘রায়ে আমি খুশি না। কারণ এই ঘটনা মূল আসামি মজিবর এখনও ধরা পড়েনি। মজিবর আর মজিবরের ছেলে হাক্কা এই দুজনকে শাস্তি দিলে সন্তুষ্ট হতাম। তবুও কিছুটা তৃপ্তি পাবো যদি এদের খুব দ্রুতই ফাঁসি কার্যকর হয়।

নিহত প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলামের শ্বশুর শহীদ চেয়ারম্যান জানান, রায়ে আমি আংশিক খুশি। মূল পরিকল্পনাকারী হিসেবে মামলার এজাহারে যাদের নাম দিয়েছিলেন তাদের মধ্যে কয়েকজনের নাম কেটে চার্জশিট দেওয়া হয়েছে। তিন বলেন, ‘ইকবাল ও আশিক মূল পরিকল্পনাকারী ছিল। তবে এখন এসের ফাঁসি হলেই জাতি দায় মুক্তি পাবে।

নিহত প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলামের স্ত্রী সেলিনা ইসলাম বিউটি বলেন, ‘আমি রায়ে সন্তুষ্ট। আমরা আশা করবো উচ্চ আদালতে রায়টি বহাল থাকবে এবং দ্রুত রায় কার্যকর হবে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজেও স্বজনহারা। তাই স্বজন হারানোর কষ্ট তিনি নিজেও বোঝেন। আমি প্রধানমন্ত্রী কাছে কৃতজ্ঞ এবং পাশাপাশি তাকে আহ্বান জানাবো, রায় কার্যকর করার ব্যাপারে তিনি যেন প্রয়োজনীয় দিক নির্দেশনা প্রদান করেন।’

চন্দন সরকার মেয়ে সুষমিতা সরকার বলেন, ‘রায়ে আমি সন্তুষ্ট। উচ্চ আদালতে রায় বহাল থাকবে সেটি আমাদের প্রত্যাশা।

এছাড়া নিহত স্বপনের ভাই মিজানুর রহমান ও তাজুলের বাবা আবুল খায়ের তারাও এ রায়ে সন্তুষ্ট প্রকাশ করেছেন।

রাষ্ট্রপক্ষের আইজীবী পিপি অ্যাডভোকেট ওয়াজেদ আলী খোকন বলেন, আদালতে নির্ভুল ও গ্রহণযোগ্য রায় ঘোষণা করা হয়েছে। আমার প্রত্যাশা উচ্চ আদালতেও রায় বহাল থাকবে। এতে ভুক্তভোগীরা ন্যায় বিচার পাবে। তিনি আরও বলেন, ‘মামলা পরিচালনা করতে গিয়ে আমি কোনও চাপ অনুভব করি নাই। এই রায়ে বাংলাদেশ তো বটেই, সারা বিশ্বের মানুষের দৃষ্টি ছিল।’

বাদীপক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন বলেন, ‘আমরা আশা করবো উচ্চ আদালতে রায়টি বহাল থাকবে। এই মামলা পরিচালনা করতে গিয়ে অনেক সংগ্রাম করতে হয়েছে। আমারা আশা কববো উচ্চ আদালতেও যথার্থ ন্যায় বিচার পাবো।

এদিকে অসন্তোষ প্রকাশ করে আসামিপক্ষের আইনজীবী সাহাবুদ্দিন বলেন, আবেগপ্রবণ হয়ে রায় দিয়েছেন আদালত। আমার মক্কেল ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেয় নাই। আমরা ন্যায়বিচার থেকে বঞ্চিত হয়েছি।’

আসামিপক্ষের আরেক আইনজীবী সুলতানুজ্জামান বলেন, ‘আমার মক্কেল মনে করেন এই আদালতে তিনি ন্যায়বিচার পাননি। আমরা উচ্চ আদালতে যাবো।’

উল্লেখ্য, ২০১৪ সালের ২৭ এপ্রিল নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লায় খান সাহেব ওসমান আলী জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামের সামনে থেকে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের ২নং ওয়ার্ডের তৎকালীন কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র-২ নজরুল ইসলাম, তার বন্ধু মনিরুজ্জামান স্বপন, তাজুল ইসলাম, লিটন, নজরুলের গাড়িচালক জাহাঙ্গীর আলম, আইনজীবী চন্দন কুমার সরকার ও তার গাড়িচালক ইব্রাহিম অপহৃত হন। পরদিন ২৮ এপ্রিল ফতুল্লা মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন নজরুল ইসলামের স্ত্রী। ওই মামলায় সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি নূর হোসেনকে প্রধান করে ৬জনকে আসামি করা হয়। এছাড়া আইনজীবী চন্দন সরকারের মেয়ের জামাই বিজয় কুমার পাল বাদী হয়ে নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লা মডেল থানায় আরও একটি মামলা করেন। ৩০ এপ্রিল বিকেলে শীতলক্ষ্যা নদী থেকে ৬ জন এবং ১ মে সকালে একজনের লাশ উদ্ধার করা হয়। পরে স্বজনরা লাশগুলো শনাক্ত করেন।

মামলার চার্জশিটভুক্ত ৩৫ আসামির মধ্যে ১২ জন পলাতক রয়েছেন। মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামিদের মধ্যে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের সাবেক কাউন্সিলর নূর হোসেন, র‌্যাব-১১-এর সাবেক অধিনায়ক লে. কর্নেল (অব.) তারেক সাঈদ মুহাম্মদ, মেজর (অব.) আরিফ হোসেন, নৌ-বাহিনীর লেফটেন্যান্ট কমান্ডার এম এম রানা রয়েছেন।

jamunanews24.com/a.rahim/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 18:47:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 18:47:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43178/-
বিএনপির প্রতিক্রিয়া রায় কার্যকরের পর http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43177/- যমুনা নিউজ: নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলামসহ সাত খুন মামলার রায় হওয়াই শেষ কথা নয়। বিএনপি রায় কার্যকরের পর প্রতিক্রিয়া জানাবে বলে জানিয়েছেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু।

সোমবার বেলা ১২টায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে নিরপেক্ষ নির্বাচন কমিশন গঠনের দাবিতে আয়োজিত এক মানববন্ধনে দুদু এ কথা বলেন।

নারায়ণগঞ্জের সাত খুনের ঘটনায় আওয়ামী লীগের স্থানীয় নেতা নুর হোসেন এবং র্যা বের সম্পৃক্ততার অভিযোগ ওঠার পর থেকেই বিএনপি নেতারা এই বিচার নিয়ে তাদের সংশয়ের কথা বলে আসছিলেন। বিশেষ করে র্যা ব-১১-এর সে সময়ের অধিনায়ক তারেক সাঈদ মোহাম্মদ ত্রাণমন্ত্রীর জামাতা হওয়ায় তিনি পার পেয়ে যাবেন বলে দাবি করে আসছিল দলটি।

কিন্তু সোমবার দুদুর এই বক্তব্যের কিছু আগেই ঘোষিত হয় সাত খুন মামলার রায়। এতে নূর হোসেন, তারেক সাঈদ মোহাম্মদসহ মোট ২৬ জনকে মৃত্যুদণ্ড দেয়া হয়।

সাত খুন মামলার রায়ের বিষয়ে দুদু বলেন, ‘এই মামলার রায়ে মানুষের প্রত্যাশা পূরণ হয়েছে। এই রায় নিম্ন আদালতের। এখনও অনেক আদালত আছে। ফাঁসি কার্যকর হলেই মন্তব্য করা যাবে। তবে আমি মনে করি সকল অন্যায়েরই বিচার হওয়া প্রয়োজন।’

দুদু আরো বলেন, ‘নারায়ণগঞ্জের সাত খুনের মামলা দেশব্যাপী অনেক আলোচিত হওয়ার কারণ এই মামলার অন্যতম আসামি মন্ত্রীর মেয়ের জামাই। অনেকের বিশ্বাস ছিল অন্য মামলাগুলোর যে হাল হয় এই মামলারও তেমন হবে। কিন্তু এই মামলার রায়ে মানুষের প্রত্যাশা পূরণ হয়েছে। এখন শেষ পরিণতি দেখার বিষয়।’

বিএনপি ক্ষমতায় আসলে সাংবাদিক সম্পতি সাগর সারওয়ার ও মেহেরুন রুন দম্পতিসহ দেশে সংগঠিত সকল গুম ও বিচার বহির্ভূত সব হত্যার বিচার হবে বলেও ঘোষণা দেন দুদু।

নির্বাচন কমিশন গঠন নিয়ে রাষ্ট্রপতির সংলাপ নিয়েও কথা বলতে গিয়ে বিএনপির এই নেতা বলেন, ‘নিরপেক্ষ সার্চ কমিটি এবং নির্বাচন কমিশন গঠন নিয়ে আমরা রাষ্ট্রপতির সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় আছি। রাষ্ট্রপতি যদি সিদ্ধান্ত দিতে ব্যর্থ হন, তাহলে বিএনপি রাজপথে আন্দোলনে নামবে।’

রাজধানীর ফুটপাত থেকে হকার উচ্ছেদেরও সমালোচনা করে দুদু বলেন, ‘আমরা চাই মানুষের চলার জন্য ফুটপাত ফাঁকা থাক। কিন্তু যারা এখানে ব্যবসা করছে তাদের জন্য অন্য কোথাও ব্যবস্থা করা হোক।’

মানবন্ধনে আরো বক্তব্য রাখেন, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা হাবিবুর রহমান হাবিব, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুস সালাম আজাদ, শহীদুল ইসলাম বাবুল, বিএনপির শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক হেলেন জেরিন খান প্রমুখ।

Jamunanews24.com/Tapan/anis/manik/ 16 Jan 2017
যমুনা নিউজ: নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলামসহ সাত খুন মামলার রায় হওয়াই শেষ কথা নয়। বিএনপি রায় কার্যকরের পর প্রতিক্রিয়া জানাবে বলে জানিয়েছেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু।

সোমবার বেলা ১২টায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে নিরপেক্ষ নির্বাচন কমিশন গঠনের দাবিতে আয়োজিত এক মানববন্ধনে দুদু এ কথা বলেন।

নারায়ণগঞ্জের সাত খুনের ঘটনায় আওয়ামী লীগের স্থানীয় নেতা নুর হোসেন এবং র্যা বের সম্পৃক্ততার অভিযোগ ওঠার পর থেকেই বিএনপি নেতারা এই বিচার নিয়ে তাদের সংশয়ের কথা বলে আসছিলেন। বিশেষ করে র্যা ব-১১-এর সে সময়ের অধিনায়ক তারেক সাঈদ মোহাম্মদ ত্রাণমন্ত্রীর জামাতা হওয়ায় তিনি পার পেয়ে যাবেন বলে দাবি করে আসছিল দলটি।

কিন্তু সোমবার দুদুর এই বক্তব্যের কিছু আগেই ঘোষিত হয় সাত খুন মামলার রায়। এতে নূর হোসেন, তারেক সাঈদ মোহাম্মদসহ মোট ২৬ জনকে মৃত্যুদণ্ড দেয়া হয়।

সাত খুন মামলার রায়ের বিষয়ে দুদু বলেন, ‘এই মামলার রায়ে মানুষের প্রত্যাশা পূরণ হয়েছে। এই রায় নিম্ন আদালতের। এখনও অনেক আদালত আছে। ফাঁসি কার্যকর হলেই মন্তব্য করা যাবে। তবে আমি মনে করি সকল অন্যায়েরই বিচার হওয়া প্রয়োজন।’

দুদু আরো বলেন, ‘নারায়ণগঞ্জের সাত খুনের মামলা দেশব্যাপী অনেক আলোচিত হওয়ার কারণ এই মামলার অন্যতম আসামি মন্ত্রীর মেয়ের জামাই। অনেকের বিশ্বাস ছিল অন্য মামলাগুলোর যে হাল হয় এই মামলারও তেমন হবে। কিন্তু এই মামলার রায়ে মানুষের প্রত্যাশা পূরণ হয়েছে। এখন শেষ পরিণতি দেখার বিষয়।’

বিএনপি ক্ষমতায় আসলে সাংবাদিক সম্পতি সাগর সারওয়ার ও মেহেরুন রুন দম্পতিসহ দেশে সংগঠিত সকল গুম ও বিচার বহির্ভূত সব হত্যার বিচার হবে বলেও ঘোষণা দেন দুদু।

নির্বাচন কমিশন গঠন নিয়ে রাষ্ট্রপতির সংলাপ নিয়েও কথা বলতে গিয়ে বিএনপির এই নেতা বলেন, ‘নিরপেক্ষ সার্চ কমিটি এবং নির্বাচন কমিশন গঠন নিয়ে আমরা রাষ্ট্রপতির সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় আছি। রাষ্ট্রপতি যদি সিদ্ধান্ত দিতে ব্যর্থ হন, তাহলে বিএনপি রাজপথে আন্দোলনে নামবে।’

রাজধানীর ফুটপাত থেকে হকার উচ্ছেদেরও সমালোচনা করে দুদু বলেন, ‘আমরা চাই মানুষের চলার জন্য ফুটপাত ফাঁকা থাক। কিন্তু যারা এখানে ব্যবসা করছে তাদের জন্য অন্য কোথাও ব্যবস্থা করা হোক।’

মানবন্ধনে আরো বক্তব্য রাখেন, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা হাবিবুর রহমান হাবিব, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুস সালাম আজাদ, শহীদুল ইসলাম বাবুল, বিএনপির শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক হেলেন জেরিন খান প্রমুখ।

Jamunanews24.com/Tapan/anis/manik/ 16 Jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 18:44:12 BDT Mon, 16 Jan 2017 18:44:12 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43177/-
বরফের চাদরে ঢাকা কাবুল http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43176/- যমুনা নিউজ: এবারের শীতে কাবু পূর্ব পশ্চিম থেকে উত্তর দক্ষিণ। এর বাইরে নেই আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলও। বরফে ঢাকা রাজধানী শহরের চিত্র ধারণ করে তা বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে দিয়েছেন আলোকচিত্রীরা।

দূর থেকে দেখলে মনে হবে কোনও চিত্র শিল্পীর ক্যানভাসে ভেসেছে বরফ৷ মিহি বরফের চাদরে ঢেকে গিয়েছে কাবুল শহর৷ সর্বত্রই বরফ আর বরফ৷ রাস্তা শুনসান৷ নিতান্ত কাজ না থাকলে কেউ বাইরে বের হচ্ছেন না৷ গুটি কয়েক পথচারীকে দেখা গিয়েছে৷

তবে উৎসাহে খামতি নেই কচি কাঁচাদের৷ আফগান শিশুরা বরফ নিয়ে পুতুল তৈরির খেলায় মেতে উঠছে৷ কাবুলের বিভিন্ন পার্ক ও মাঠে দেখা গিয়েছে বরফ দিয়ে তৈরি নানা মূর্তি৷ নাশকতায় রক্তাক্ত থাকে আফগান রাজধানী৷ সোমবার প্রকৃতির স্পর্শে সেই ভয়াবহ রূপ মুছে গেল৷

jamunanews24.com/kabir/manik/ 16 jan 2017
যমুনা নিউজ: এবারের শীতে কাবু পূর্ব পশ্চিম থেকে উত্তর দক্ষিণ। এর বাইরে নেই আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলও। বরফে ঢাকা রাজধানী শহরের চিত্র ধারণ করে তা বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে দিয়েছেন আলোকচিত্রীরা।

দূর থেকে দেখলে মনে হবে কোনও চিত্র শিল্পীর ক্যানভাসে ভেসেছে বরফ৷ মিহি বরফের চাদরে ঢেকে গিয়েছে কাবুল শহর৷ সর্বত্রই বরফ আর বরফ৷ রাস্তা শুনসান৷ নিতান্ত কাজ না থাকলে কেউ বাইরে বের হচ্ছেন না৷ গুটি কয়েক পথচারীকে দেখা গিয়েছে৷

তবে উৎসাহে খামতি নেই কচি কাঁচাদের৷ আফগান শিশুরা বরফ নিয়ে পুতুল তৈরির খেলায় মেতে উঠছে৷ কাবুলের বিভিন্ন পার্ক ও মাঠে দেখা গিয়েছে বরফ দিয়ে তৈরি নানা মূর্তি৷ নাশকতায় রক্তাক্ত থাকে আফগান রাজধানী৷ সোমবার প্রকৃতির স্পর্শে সেই ভয়াবহ রূপ মুছে গেল৷

jamunanews24.com/kabir/manik/ 16 jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 18:40:46 BDT Mon, 16 Jan 2017 18:40:46 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43176/-
বর্ষসেরা ‘অভিষিক্ত ক্রিকেটার’ বানাতে মিরাজকে ভোট দিন http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43175/-
স্পোর্টস ডেস্ক: ইংল্যান্ডের বিপক্ষে দুই টেস্টে ১৯ উইকেট নিয়ে হইচই ফেলে দিয়েছিলেন বাংলাদেশি স্পিনার মেহেদি হাসান মিরাজ। দেশের মাটিতে ইংলিশদের বিপক্ষেই সাদা পোশাকে অভিষেক হয়েছিল টাইগার অনূর্ধ্ব-১৯ দলের সাবেক এ অধিনায়কের। এবার তরুণ এ তারকাকে ভোট দিয়ে বর্ষসেরা ‘অভিষিক্ত ক্রিকেটার’ বানানোর সুযোগ এসেছে।

ক্রিকেটের জনপ্রিয় ওয়েবসাইট ইএসপিএনক্রিকইনফো এমন দুয়ার খুলে দিয়েছে পাঠকের সামনে। যেখানে ভোট দিয়ে প্রিয় ক্রিকেটারকে সেরা করার সুযোগ থাকছে। এ তালিকায় ২০১৬ সালে অভিষেক হওয়া মোট ১০ ক্রিকেটারের তালিকায় রয়েছেন বাংলাদেশের গর্ব মিরাজ।

গত বছরের অক্টোবরে বাংলাদেশ সফরে সীমিত ওভারের সিরিজের পর দুই ম্যাচের টেস্ট খেলতে নামে ইংল্যান্ড। যেখানে চট্টগ্রামে অনুষ্ঠিত প্রথম টেস্টে অভিষেক হয় মিরাজের। প্রথম টেস্টেই বাজিমাত করেন তিনি। দুই ইনিংসে ১৩৮ রানের বিনিময়ে নেন সাতটি উইকেট। আর দ্বিতীয় টেস্টে তো রেকর্ড বয়ই হয়ে যান তিনি। ১৫৯ রানের বিনিময়ে তুলে নেন ইংলিশদের ১২টি উইকেট। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে বাংলাদেশের ঐতিহাসিক জয়ে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখেন, হন সিরিজ সেরা।

ভোট দিতে যা করতে হবে:
প্রথমে এই লিংক এ ক্লিক করুন http://www.espncricinfo.com/awards2016/content/site/awards2016/debut.html

তারপর একটি নির্দিষ্ট পেইজ আসবে। সেখান থেকে নিচের দিকে যান দেখবেন Submit Your Vote লেখা রয়েছে। সেখান থেকে Login ক্লিক করে আপনি একাউন্ট করুন। একাউন্ট খোলা হলে এবার আপনার ইমেইল আইডি ও পাসওয়ার্ড দিয়ে প্রবেশ করুন। তারপর মুস্তাফিজের ছবিতে ক্লিক করুন দেখবেন মুস্তাফিজের ছবিটির পিছনে লাল কালার হয়ে গেছে। ছবিতে ক্লিক করে নিচে নেমে দেখুন Vote Now লেখা রয়েছে এবার Vote Now এ ক্লিক করুন। আপনার ভোট দেয়া হয়ে গেলো।

ইএসপিএনক্রিকইনফো তালিকায় অন্য ক্রিকেটাররা হলেন:
# জসপ্রিত বুমরাহ (ভারত)
# স্টেফেন কুক (দক্ষিণ আফ্রিকা)
# এভিন লুইস (ওয়েস্ট ইন্ডিজ)
# জয়ন্ত যাদব (ভারত)
# হাসিব হামিদ (ইংল্যান্ড)
# জিত রাভাল (নিউজিল্যান্ড)
# কারন নায়ার (ভারত)
# পিটার হ্যান্ডসকম্ব (অস্ট্রেলিয়া)
# কিয়েটন জেনিংস (ইংল্যান্ড)

** মিরাজকে বর্ষসেরা বানাতে এখানে ক্লিক করুন

jamunanews24.com/ali/16 january 2017
স্পোর্টস ডেস্ক: ইংল্যান্ডের বিপক্ষে দুই টেস্টে ১৯ উইকেট নিয়ে হইচই ফেলে দিয়েছিলেন বাংলাদেশি স্পিনার মেহেদি হাসান মিরাজ। দেশের মাটিতে ইংলিশদের বিপক্ষেই সাদা পোশাকে অভিষেক হয়েছিল টাইগার অনূর্ধ্ব-১৯ দলের সাবেক এ অধিনায়কের। এবার তরুণ এ তারকাকে ভোট দিয়ে বর্ষসেরা ‘অভিষিক্ত ক্রিকেটার’ বানানোর সুযোগ এসেছে।
ক্রিকেটের জনপ্রিয় ওয়েবসাইট ইএসপিএনক্রিকইনফো এমন দুয়ার খুলে দিয়েছে পাঠকের সামনে। যেখানে ভোট দিয়ে প্রিয় ক্রিকেটারকে সেরা করার সুযোগ থাকছে। এ তালিকায় ২০১৬ সালে অভিষেক হওয়া মোট ১০ ক্রিকেটারের তালিকায় রয়েছেন বাংলাদেশের গর্ব মিরাজ।

গত বছরের অক্টোবরে বাংলাদেশ সফরে সীমিত ওভারের সিরিজের পর দুই ম্যাচের টেস্ট খেলতে নামে ইংল্যান্ড। যেখানে চট্টগ্রামে অনুষ্ঠিত প্রথম টেস্টে অভিষেক হয় মিরাজের। প্রথম টেস্টেই বাজিমাত করেন তিনি। দুই ইনিংসে ১৩৮ রানের বিনিময়ে নেন সাতটি উইকেট। আর দ্বিতীয় টেস্টে তো রেকর্ড বয়ই হয়ে যান তিনি। ১৫৯ রানের বিনিময়ে তুলে নেন ইংলিশদের ১২টি উইকেট। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে বাংলাদেশের ঐতিহাসিক জয়ে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখেন, হন সিরিজ সেরা।

ভোট দিতে যা করতে হবে:
প্রথমে এই লিংক এ ক্লিক করুন http://www.espncricinfo.com/awards2016/content/site/awards2016/debut.html

তারপর একটি নির্দিষ্ট পেইজ আসবে। সেখান থেকে নিচের দিকে যান দেখবেন Submit Your Vote লেখা রয়েছে। সেখান থেকে Login ক্লিক করে আপনি একাউন্ট করুন। একাউন্ট খোলা হলে এবার আপনার ইমেইল আইডি ও পাসওয়ার্ড দিয়ে প্রবেশ করুন। তারপর মুস্তাফিজের ছবিতে ক্লিক করুন দেখবেন মুস্তাফিজের ছবিটির পিছনে লাল কালার হয়ে গেছে। ছবিতে ক্লিক করে নিচে নেমে দেখুন Vote Now লেখা রয়েছে এবার Vote Now এ ক্লিক করুন। আপনার ভোট দেয়া হয়ে গেলো।

ইএসপিএনক্রিকইনফো তালিকায় অন্য ক্রিকেটাররা হলেন:
# জসপ্রিত বুমরাহ (ভারত)
# স্টেফেন কুক (দক্ষিণ আফ্রিকা)
# এভিন লুইস (ওয়েস্ট ইন্ডিজ)
# জয়ন্ত যাদব (ভারত)
# হাসিব হামিদ (ইংল্যান্ড)
# জিত রাভাল (নিউজিল্যান্ড)
# কারন নায়ার (ভারত)
# পিটার হ্যান্ডসকম্ব (অস্ট্রেলিয়া)
# কিয়েটন জেনিংস (ইংল্যান্ড)

** মিরাজকে বর্ষসেরা বানাতে এখানে ক্লিক করুন

jamunanews24.com/ali/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 18:28:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 18:28:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43175/-
পঞ্চগড়ে পিকআপ চাপায় নারী শ্রমিকের মৃত্যু http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43174/- যমুনা নিউজ: পঞ্চগড়ে পিকআপভ্যানের চাপায় রমিছা বেগম (৪৫) নামে এক পাথর শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে।

সোমবার বিকেলে পঞ্চগড় সদর উপজেলার জগদল এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত রমিছা বেগম সদর উপজেলার জগদল এলাকার গোয়ালপাড়া গ্রামের খলিল হোসেনের স্ত্রী।

পুলিশ জানায়, রামিছা বেগম জগদল ডিগ্রি কলেজের সামনে মহাসড়কের পাশে পাথর ভাঙার কাজ করছিলেন। দুপুরের খাবার খাওয়ার পর তিনি সড়কের পাশ দিয়ে হেঁটে যাচ্ছিলেন। এ সময় তেঁতুলিয়া থেকে চা-পাতা বোঝাই একটি পিকআপভ্যান তাকে পেছন থেকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই রমিছার মৃত্যু হয়।

পঞ্চগড় সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মমিনুল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017
যমুনা নিউজ: পঞ্চগড়ে পিকআপভ্যানের চাপায় রমিছা বেগম (৪৫) নামে এক পাথর শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে।

সোমবার বিকেলে পঞ্চগড় সদর উপজেলার জগদল এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত রমিছা বেগম সদর উপজেলার জগদল এলাকার গোয়ালপাড়া গ্রামের খলিল হোসেনের স্ত্রী।

পুলিশ জানায়, রামিছা বেগম জগদল ডিগ্রি কলেজের সামনে মহাসড়কের পাশে পাথর ভাঙার কাজ করছিলেন। দুপুরের খাবার খাওয়ার পর তিনি সড়কের পাশ দিয়ে হেঁটে যাচ্ছিলেন। এ সময় তেঁতুলিয়া থেকে চা-পাতা বোঝাই একটি পিকআপভ্যান তাকে পেছন থেকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই রমিছার মৃত্যু হয়।

পঞ্চগড় সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মমিনুল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 18:16:06 BDT Mon, 16 Jan 2017 18:16:06 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43174/-
‘তুমিহীনা দিয়ে হাবিবের নতুন বছর শুরু http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43173/- যমুনা নিউজ: নতুন বছরে ‘তুমিহীনা’ শিরোনামের গান দিয়ে শুরু করলেন সংগীতশিল্পী হাবিব ওয়াহিদ। তার নতুন গানের ভিডিও প্রকাশের মাধ্যমে যেন এটি উদযাপন করলেন এ তারকা।

রোববার নিজ ইউটিউব চ্যানেলে মুক্তি দিয়েছেন তার নতুন গান তুমিহীনা’র ভিডিও। পাশাপাশি তিনি জানিয়েছেন, এ গানটি বিশেষ কিছু মানুষের জন্য। হাবিবের ভাষ্য, আজও কাউকে খুঁজে বেড়াচ্ছেন যারা, তাদের উৎসর্গ করলাম আমার এই গানটি।

ফেসবুক স্ট্যাটাসে হাবিব আরো জানান, আমার এ গানের মধ্য দিয়েই নতুন বছরের শুরু হলো।

‘তুমিহীনা’ গানটির কথাগুলো এমন- তুমিহীনা নিশিরাত একা চাঁদ অপলক চেয়ে রয় না/তুমিহীনা দূরের ওই আকাশ ছুঁয়ে যায় না। গানের কথা লিখেছেন মিনার রহমান। আর সুর-সংগীতের কাজটি বরাবরের মতোই হাবিব নিজে করেছেন। এমনকি ভিডিওটিতে তিনিই মডেল হয়েছেন।

এটি নির্মিত হয়েছে স্কটল্যান্ডে। পরিচালনা করেছেন তোফায়েল রশীদ।

jamunanews24.com/zobaida/nayon/16 january 2017
যমুনা নিউজ: নতুন বছরে ‘তুমিহীনা’ শিরোনামের গান দিয়ে শুরু করলেন সংগীতশিল্পী হাবিব ওয়াহিদ। তার নতুন গানের ভিডিও প্রকাশের মাধ্যমে যেন এটি উদযাপন করলেন এ তারকা।

রোববার নিজ ইউটিউব চ্যানেলে মুক্তি দিয়েছেন তার নতুন গান তুমিহীনা’র ভিডিও। পাশাপাশি তিনি জানিয়েছেন, এ গানটি বিশেষ কিছু মানুষের জন্য। হাবিবের ভাষ্য, আজও কাউকে খুঁজে বেড়াচ্ছেন যারা, তাদের উৎসর্গ করলাম আমার এই গানটি।

ফেসবুক স্ট্যাটাসে হাবিব আরো জানান, আমার এ গানের মধ্য দিয়েই নতুন বছরের শুরু হলো।

‘তুমিহীনা’ গানটির কথাগুলো এমন- তুমিহীনা নিশিরাত একা চাঁদ অপলক চেয়ে রয় না/তুমিহীনা দূরের ওই আকাশ ছুঁয়ে যায় না। গানের কথা লিখেছেন মিনার রহমান। আর সুর-সংগীতের কাজটি বরাবরের মতোই হাবিব নিজে করেছেন। এমনকি ভিডিওটিতে তিনিই মডেল হয়েছেন।

এটি নির্মিত হয়েছে স্কটল্যান্ডে। পরিচালনা করেছেন তোফায়েল রশীদ।

jamunanews24.com/zobaida/nayon/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 18:11:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 18:11:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43173/-
শো থামিয়ে তরুণীকে উদ্ধার http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43172/- যমুনা নিউজ: দর্শক সারিতে এক তরুণীকে ক্রমাগত হেনস্থা করে যাচ্ছিল কয়েক জন যুবক। ঘটনাটি চোখে পড়ে শিল্পী পাকিস্তানি পপ গায়ক ও চলচ্চিত্র অভিনেতা আতিফ আসলামের। গান থামিয়ে মঞ্চ থেকে নেমে যান।

অভিযুক্তদের ধমক দিয়ে বলেন, এর আগে মেয়ে দেখোনি?‌ তোমার মা বা বোনও এখানে থাকতে পারতেন। এর পর নিরাপত্তা রক্ষীরা এসে ওই তরুণীকে অন্য জায়গায় সরিয়ে নিয়ে যান।

শনিবার রাতে করাচি ইট ২০১৭ কনসার্টে গান গাইছিলেন আতিফ আসলাম। তখনই এই ঘটনা। আয়োজকরা যদিও এই নিয়ে মুখ খোলেননি।

jamunanews24.com/zobaida/nayon/16 january 2017
যমুনা নিউজ: দর্শক সারিতে এক তরুণীকে ক্রমাগত হেনস্থা করে যাচ্ছিল কয়েক জন যুবক। ঘটনাটি চোখে পড়ে শিল্পী পাকিস্তানি পপ গায়ক ও চলচ্চিত্র অভিনেতা আতিফ আসলামের। গান থামিয়ে মঞ্চ থেকে নেমে যান।

অভিযুক্তদের ধমক দিয়ে বলেন, এর আগে মেয়ে দেখোনি?‌ তোমার মা বা বোনও এখানে থাকতে পারতেন। এর পর নিরাপত্তা রক্ষীরা এসে ওই তরুণীকে অন্য জায়গায় সরিয়ে নিয়ে যান।

শনিবার রাতে করাচি ইট ২০১৭ কনসার্টে গান গাইছিলেন আতিফ আসলাম। তখনই এই ঘটনা। আয়োজকরা যদিও এই নিয়ে মুখ খোলেননি।

jamunanews24.com/zobaida/nayon/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 17:57:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 17:57:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43172/-
ভালোবাসা দিবসে পপির ‘সোনাবন্ধু’ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43170/- যমুনা নিউজ: ভালোবাসা দিবসে মুক্তি পেতে যাচ্ছে জাহাঙ্গীর আলম পরিচালিত চলচ্চিত্র ‘সোনাবন্ধু’। এ চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন ঢালিউড অভিনেত্রী পপি। দীর্ঘদিন পর এ জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রাপ্ত অভিনেত্রীর একটি ছবি মুক্তি পেতে যাচ্ছে।

ছবির কাহিনী লিখেছেন মাহবুবা শাহরীন এবং চিত্রনাট্য সংলাপ লিখেছেন মমর রুবেল।

ছবিতে পপির বিপরীতে অভিনয় করেছেন ডিএ তায়েব। আরও রয়েছেন পরীমনি। শুভ টেলিফিল্মের ব্যানারে ‘সোনাবন্ধু’ ছবির গবেষণায় রয়েছেন ড. মাহফুজুর রহমান। এদিকে ছবির বাইরে পপি ‘রাজপথে আছি’ নামেও একটি ছবিতে কাজ করতে যাচ্ছেন। এতে তার নায়ক হিসেবে দেখা যাবে জায়েদ খানকে। ছবিটি পরিচালনা করবেন জাভেদ জাহিদ। রাজনৈতিক গল্পের কাহিনী থাকছে এ ছবিতে।

এবারই প্রথম জায়েদ খান পপির বিপরীতে কাজ করতে যাচ্ছেন। খুব শিগগির এ ছবির শুটিং শুরু হবে। 

jamunanews24.com/zobaida/nayon/16 january 2017
যমুনা নিউজ: ভালোবাসা দিবসে মুক্তি পেতে যাচ্ছে জাহাঙ্গীর আলম পরিচালিত চলচ্চিত্র ‘সোনাবন্ধু’। এ চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন ঢালিউড অভিনেত্রী পপি। দীর্ঘদিন পর এ জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রাপ্ত অভিনেত্রীর একটি ছবি মুক্তি পেতে যাচ্ছে।

ছবির কাহিনী লিখেছেন মাহবুবা শাহরীন এবং চিত্রনাট্য সংলাপ লিখেছেন মমর রুবেল।

ছবিতে পপির বিপরীতে অভিনয় করেছেন ডিএ তায়েব। আরও রয়েছেন পরীমনি। শুভ টেলিফিল্মের ব্যানারে ‘সোনাবন্ধু’ ছবির গবেষণায় রয়েছেন ড. মাহফুজুর রহমান। এদিকে ছবির বাইরে পপি ‘রাজপথে আছি’ নামেও একটি ছবিতে কাজ করতে যাচ্ছেন। এতে তার নায়ক হিসেবে দেখা যাবে জায়েদ খানকে। ছবিটি পরিচালনা করবেন জাভেদ জাহিদ। রাজনৈতিক গল্পের কাহিনী থাকছে এ ছবিতে।

এবারই প্রথম জায়েদ খান পপির বিপরীতে কাজ করতে যাচ্ছেন। খুব শিগগির এ ছবির শুটিং শুরু হবে। 

jamunanews24.com/zobaida/nayon/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 17:43:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 17:43:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43170/-
হেলমেট ছাড়া ব্যাটিং নিষিদ্ধ করল আইসিসি http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43169/-
স্পোর্টস ডেস্ক: আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি) ক্রিকেটারদের নিরাপত্তা নিয়ে বহুল প্রত্যাশিত এক পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। মূলত ব্যাটসম্যানদের জন্য নতুন আইন জারী করে, হেলমেট ছাড়া ব্যাটিং সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ করল আইসিসি।

আগামী ১ ফেব্রুয়ারি থেকে আন্তর্জাতিক ম্যাচে কোনো ব্যাটসম্যান হেলমেট ছাড়া ব্যাটিং করতে পারবেন না। করলে তাকে শাস্তির সম্মূখিন হবে। এমনকি নারী ও পুরুষ; উভয় ক্রিকেটে এই নিয়ম প্রযোজ্য হবে।

বিশ্ব ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা আইসিসি বলছে, ‘কোনো ব্যাটসম্যান যদি এই নিয়ম অন্তত দুবার ভাঙেন, তবে তাকে এক ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ করা হবে।’

উল্লেখ্য বিগত ২০১৬ সালের জুন মাসে আইসিসির ক্রিকেট বিষয়ক কমিটিতে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ব্যাটসম্যানদের নিরাপত্তার খাতিরে হেলমেট পরা বাধ্যতামূলক করার সুপারিশ করে। সেই সুপারিশ আমলে নিয়ে পহেলা ফেব্রুয়ারি থেকে সব ধরনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ব্যাটসম্যানদের হেলমেট ছাড়া ব্যাটিং নিষিদ্ধ করল আইসিসি।

jamunanews24.com/ali/16 january 2017
স্পোর্টস ডেস্ক: আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি) ক্রিকেটারদের নিরাপত্তা নিয়ে বহুল প্রত্যাশিত এক পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। মূলত ব্যাটসম্যানদের জন্য নতুন আইন জারী করে, হেলমেট ছাড়া ব্যাটিং সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ করল আইসিসি।
আগামী ১ ফেব্রুয়ারি থেকে আন্তর্জাতিক ম্যাচে কোনো ব্যাটসম্যান হেলমেট ছাড়া ব্যাটিং করতে পারবেন না। করলে তাকে শাস্তির সম্মূখিন হবে। এমনকি নারী ও পুরুষ; উভয় ক্রিকেটে এই নিয়ম প্রযোজ্য হবে।

বিশ্ব ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা আইসিসি বলছে, ‘কোনো ব্যাটসম্যান যদি এই নিয়ম অন্তত দুবার ভাঙেন, তবে তাকে এক ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ করা হবে।’

উল্লেখ্য বিগত ২০১৬ সালের জুন মাসে আইসিসির ক্রিকেট বিষয়ক কমিটিতে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ব্যাটসম্যানদের নিরাপত্তার খাতিরে হেলমেট পরা বাধ্যতামূলক করার সুপারিশ করে। সেই সুপারিশ আমলে নিয়ে পহেলা ফেব্রুয়ারি থেকে সব ধরনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ব্যাটসম্যানদের হেলমেট ছাড়া ব্যাটিং নিষিদ্ধ করল আইসিসি।

jamunanews24.com/ali/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 17:24:41 BDT Mon, 16 Jan 2017 17:24:41 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43169/-
ফাঁসির আসামির দম্ভ, রায় শুনে জুতা মারার চেষ্টা ! http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43167/-
যমুনা নিউজ: আলোচিত সাত খুন মামলায় রায়ে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী সভাপতি নূর হোসেনের ঘনিষ্ঠ সহযোগী এবং এ মামলার ২ নম্বর আসামি আওয়ামী লীগ নেতা মো. মিজানুর রহমান দিপু ফাঁসির রায় শুনে কাঁদতে কাঁদতে সাংবাদিকদের জুতা মারার চেষ্টা করেছেন। রায় ঘোষণার পর এজলাস থেকে বের হওয়ার সময় এ ঘটনা ঘটে।

সূত্র জানায়, সোমবার সকালে সাত খুন মামলার রায় ঘোষণা করেন দায়রা ও জেলা জজ সৈয়দ এনায়েত হোসেন। রায় ঘোষণার পর এজলাস থেকে আসামিদের বাইরে বের করে আনার সময় কর্তব্যরত সাংবাদিকরা তাদের ছবি তুলতে গেলে ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠেন মিজানুর রহমান দিপু। এ সময় তিনি তার পা থেকে জুতা খুলে সাংবাদিকদের দিকে ছুড়ে মারার চেষ্টা করেন। তবে, কর্তব্যরত পুলিশদের কারণে তার চেষ্টা ব্যর্থ হয়।
প্রসঙ্গত, সাত খুনের মামলায় মো. মিজানুর রহমানসহ ২৬ জনের ফাঁসির আদেশ দিয়েছেন আদালত। নারায়ণগঞ্জ জেলা ও দায়রা জজ সৈয়দ এনায়েত হোসেন সোমবার সকাল ১০টার দিকে এই রায় ঘোষণা করেন। এছাড়া বাকি ৯ আসামিকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। ৩৫ আসামির মধ্যে ২৩ জন আদালতে উপস্থিত ছিলেন। পলাতক আছেন ১২ জন।

jamunanews24.com/a.rahim/anis/16 january 2017
যমুনা নিউজ: আলোচিত সাত খুন মামলায় রায়ে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী সভাপতি নূর হোসেনের ঘনিষ্ঠ সহযোগী এবং এ মামলার ২ নম্বর আসামি আওয়ামী লীগ নেতা মো. মিজানুর রহমান দিপু ফাঁসির রায় শুনে কাঁদতে কাঁদতে সাংবাদিকদের জুতা মারার চেষ্টা করেছেন। রায় ঘোষণার পর এজলাস থেকে বের হওয়ার সময় এ ঘটনা ঘটে।
সূত্র জানায়, সোমবার সকালে সাত খুন মামলার রায় ঘোষণা করেন দায়রা ও জেলা জজ সৈয়দ এনায়েত হোসেন। রায় ঘোষণার পর এজলাস থেকে আসামিদের বাইরে বের করে আনার সময় কর্তব্যরত সাংবাদিকরা তাদের ছবি তুলতে গেলে ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠেন মিজানুর রহমান দিপু। এ সময় তিনি তার পা থেকে জুতা খুলে সাংবাদিকদের দিকে ছুড়ে মারার চেষ্টা করেন। তবে, কর্তব্যরত পুলিশদের কারণে তার চেষ্টা ব্যর্থ হয়।
প্রসঙ্গত, সাত খুনের মামলায় মো. মিজানুর রহমানসহ ২৬ জনের ফাঁসির আদেশ দিয়েছেন আদালত। নারায়ণগঞ্জ জেলা ও দায়রা জজ সৈয়দ এনায়েত হোসেন সোমবার সকাল ১০টার দিকে এই রায় ঘোষণা করেন। এছাড়া বাকি ৯ আসামিকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। ৩৫ আসামির মধ্যে ২৩ জন আদালতে উপস্থিত ছিলেন। পলাতক আছেন ১২ জন।

jamunanews24.com/a.rahim/anis/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 17:21:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 17:21:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43167/-
অস্কার মনোনয়ন দেখা যাবে অনলাইনে http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43168/- যমুনা নিউজ: বিশ্ব চলচ্চিত্র অঙ্গনের সবচেয়ে মর্যাদা সম্পন্ন পুরস্কার অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ডস। প্রথমবারের মতো এই অ্যাওয়ার্ডসের মনোনয়ন নাম জানা যাবে অনলাইনে। সরাসরির পরিবর্তে অনলাইনেই জানা যাবে এবারের ৮৯তম আসর ২০১৭ -এ কারা কারা নমিনি।

সম্প্রতি অ্যাকাডেমি অব মোশন পিকচার আর্টস অ্যান্ড সায়েন্সের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, ৮৯তম অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ডস-এর প্রতিযোগীদের নাম এবার অনলাইনে জানানো হবে।

রয়েছে লাইভের ব্যবস্থাও। Oscar.com, Oscars.org, একাধিক ওয়েবসাইটে লাইভের মাধ্যমে দেখানো হবে এই নমিনেশন প্রক্রিয়াটি। এই বছর ২৪টি ক্যাটিগরি রয়েছে। আগামী ২৬ ফেব্রুয়ারি অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া এই অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ডস-এর মূল অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করবেন জিমি কিমেল।

jamunanews24.com/zobaida/nayon/16 january 2017
যমুনা নিউজ: বিশ্ব চলচ্চিত্র অঙ্গনের সবচেয়ে মর্যাদা সম্পন্ন পুরস্কার অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ডস। প্রথমবারের মতো এই অ্যাওয়ার্ডসের মনোনয়ন নাম জানা যাবে অনলাইনে। সরাসরির পরিবর্তে অনলাইনেই জানা যাবে এবারের ৮৯তম আসর ২০১৭ -এ কারা কারা নমিনি।

সম্প্রতি অ্যাকাডেমি অব মোশন পিকচার আর্টস অ্যান্ড সায়েন্সের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, ৮৯তম অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ডস-এর প্রতিযোগীদের নাম এবার অনলাইনে জানানো হবে।

রয়েছে লাইভের ব্যবস্থাও। Oscar.com, Oscars.org, একাধিক ওয়েবসাইটে লাইভের মাধ্যমে দেখানো হবে এই নমিনেশন প্রক্রিয়াটি। এই বছর ২৪টি ক্যাটিগরি রয়েছে। আগামী ২৬ ফেব্রুয়ারি অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া এই অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ডস-এর মূল অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করবেন জিমি কিমেল।

jamunanews24.com/zobaida/nayon/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 17:21:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 17:21:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43168/-
শহরের সুবিধা এখন গ্রামে বসেই পাওয়া যাবে http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43166/- যমুনা নিউজ: আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও  কৃষিমন্ত্রী বেগম মতিয়া চৌধুরী বলেছেন, আজকে শুধু উড়াল সেতু না, উড়াল রাস্তা না, উড়াল ট্রেনও হবে। অনেক কিছুই হবে। ঢাকা শহর ময়মনসিংহ পর্যন্ত চলে আসবে। এখনই ঢাকা আর ময়মনসিংহের মধ্যে খুব একটা পার্থক্য করা যায় না। মানুষ শহরের সুবিধা এখন গ্রামে বসেই পাবে।

সোমবার দুপুরে তার নির্বাচনী এলাকা শেরপুরের-নালিতাবাড়ির কাপাসিয়া শহিদ স্মৃতি উচ্চ বিদ্যালয়ে দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে প্রণোদনার অর্থ ও শীতের কম্বল বিতরণকালে তিনি এসব কথা বলেন।

কৃষিমন্ত্রী বলেন, জাতির জনকের যোগ্য উত্তোরসূরী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সর্বদাই দেশের কল্যাণে ভাবেন। তার অবদানে বাংলাদেশ আজ সারা বিশ্বে উন্নয়নের রোল মডেলে পরিনত হয়েছে। বর্তমান সরকার দেশের সার্বিক উন্নয়নে যে কাজ করেছে তার দৃষ্টান্ত ঢাকা শহরের দিকে তাকালেই বোঝা যায়। ঢাকায় হাতিরঝিল এলাকাটি ছিল অঘোষিত গণশৌচাগার। সেই হাতিরঝিল এখন স্বপ্নপুরির মতো ঝিলমিল করছে, যা বর্তমান সরকারের অবদান।

তিনি বলেন, বিএনপি নেত্রী বেগম খালেদা জিয়া আরও সাত বার জন্ম নিলেও হাতিরঝিল প্রকল্পের স্বপ্নই দেখতে পারবেন না। যারা দেশের সম্পদ লুটপাট করে খেয়েছে, তাদের মুখে দেশের উন্নয়নের কথা শোভা পায় না।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন- শেরপুরের জেলা প্রশাসক আরিফুল ইসলাম, পুলিশ সুপার (এসপি) রফিকুল হাসান গণি,  অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সালাউদ্দিন সিকদার,  নালিতাবাড়ি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান একেএম মোখলেছুর রহমান রিপন প্রমুখ।

jamunanews24.com/shakil/rana/16 january 2017
যমুনা নিউজ: আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও  কৃষিমন্ত্রী বেগম মতিয়া চৌধুরী বলেছেন, আজকে শুধু উড়াল সেতু না, উড়াল রাস্তা না, উড়াল ট্রেনও হবে। অনেক কিছুই হবে। ঢাকা শহর ময়মনসিংহ পর্যন্ত চলে আসবে। এখনই ঢাকা আর ময়মনসিংহের মধ্যে খুব একটা পার্থক্য করা যায় না। মানুষ শহরের সুবিধা এখন গ্রামে বসেই পাবে।

সোমবার দুপুরে তার নির্বাচনী এলাকা শেরপুরের-নালিতাবাড়ির কাপাসিয়া শহিদ স্মৃতি উচ্চ বিদ্যালয়ে দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে প্রণোদনার অর্থ ও শীতের কম্বল বিতরণকালে তিনি এসব কথা বলেন।

কৃষিমন্ত্রী বলেন, জাতির জনকের যোগ্য উত্তোরসূরী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সর্বদাই দেশের কল্যাণে ভাবেন। তার অবদানে বাংলাদেশ আজ সারা বিশ্বে উন্নয়নের রোল মডেলে পরিনত হয়েছে। বর্তমান সরকার দেশের সার্বিক উন্নয়নে যে কাজ করেছে তার দৃষ্টান্ত ঢাকা শহরের দিকে তাকালেই বোঝা যায়। ঢাকায় হাতিরঝিল এলাকাটি ছিল অঘোষিত গণশৌচাগার। সেই হাতিরঝিল এখন স্বপ্নপুরির মতো ঝিলমিল করছে, যা বর্তমান সরকারের অবদান।

তিনি বলেন, বিএনপি নেত্রী বেগম খালেদা জিয়া আরও সাত বার জন্ম নিলেও হাতিরঝিল প্রকল্পের স্বপ্নই দেখতে পারবেন না। যারা দেশের সম্পদ লুটপাট করে খেয়েছে, তাদের মুখে দেশের উন্নয়নের কথা শোভা পায় না।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন- শেরপুরের জেলা প্রশাসক আরিফুল ইসলাম, পুলিশ সুপার (এসপি) রফিকুল হাসান গণি,  অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সালাউদ্দিন সিকদার,  নালিতাবাড়ি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান একেএম মোখলেছুর রহমান রিপন প্রমুখ।

jamunanews24.com/shakil/rana/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 17:18:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 17:18:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43166/-
ট্রাক্টরচাপায় স্কুলছাত্রের মৃত্যু http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43165/- যমুনা নিউজ: হবিগঞ্জে ট্রাক্টর চাপায়  রাহুল (৮) নামে এক স্কুলছাত্রের মৃত্যু হয়েছে।

সোমবার দুপুর ১টার দিকে সদর উপজেলার পইল গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।
 
নিহত রাহুল পইল গ্রামের নিম্বর আলীর ছেলে।

নিহতের পরিবার সূত্রে জানা যায়, দুপুরে একটি মাটিবোঝাই ট্রাক্টর শিয়ালদাড়িয়া পাঁচপাড়িয়া থেকে পইল রোডে যাচ্ছিল। এসময় ট্রাক্টরটি রাহুলকে চাপা দিলে সে গুরুতর আহত হয়। তাকে উদ্ধার করে সদর আধুনিক হাসপাতালে নেয়ার পথে সে মারা যায়।

হবিগঞ্জ সদর হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. সাইফুর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017
যমুনা নিউজ: হবিগঞ্জে ট্রাক্টর চাপায়  রাহুল (৮) নামে এক স্কুলছাত্রের মৃত্যু হয়েছে।

সোমবার দুপুর ১টার দিকে সদর উপজেলার পইল গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।
 
নিহত রাহুল পইল গ্রামের নিম্বর আলীর ছেলে।

নিহতের পরিবার সূত্রে জানা যায়, দুপুরে একটি মাটিবোঝাই ট্রাক্টর শিয়ালদাড়িয়া পাঁচপাড়িয়া থেকে পইল রোডে যাচ্ছিল। এসময় ট্রাক্টরটি রাহুলকে চাপা দিলে সে গুরুতর আহত হয়। তাকে উদ্ধার করে সদর আধুনিক হাসপাতালে নেয়ার পথে সে মারা যায়।

হবিগঞ্জ সদর হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. সাইফুর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 16:42:58 BDT Mon, 16 Jan 2017 16:42:58 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43165/-
পুরুষদের হারের দিনে মহিলাদের জয় http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43163/-
স্পোর্টস ডেস্ক: নিউজিল্যান্ডের ওয়েলিংটনে প্রথম চারদিনের লড়াইয়ের পর শেষ দিনে আত্মসম্পর্ণ যথাযথই ব্যথিত করেছিল বাংলাদেশের ক্রিকেট প্রেমীদের। কিন্তু হতাশ করেনি বাংলাদেশের প্রমীলা টাইগাররা।

পাঁচ ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের প্রথম দুই ওয়ানডেতে বড় হারে এমনিতেই ব্যাকফুটে ছিল বাংলাদেশ। তৃতীয় ম্যাচে দারুণ জয় তুলে নিয়েছে বাংলাদেশের মেয়েরা। সফরকারী দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টাইগ্রেসদের জয়টি ১০ রানের। খাদিজা, জাহানারা আর পান্নার বোলিং তোপে রোমাঞ্চকর জয় তুলে নেয় বাঘিনীরা। প্রথম দুই ম্যাচ হেরে তৃতীয় ম্যাচে জয় পাওয়ায় সিরিজে ঘুরে দাঁড়িয়ে ২-১ এ ব্যবধান কমিয়ে আনলো স্বাগতিকরা।

ঘুরে দাঁড়ানোর ম্যাচে আগে ব্যাট করে বাংলাদেশ নারী দল ৪৯ ওভারে মাত্র ১৩৬ রান তুলতেই অলআউট হয়। জবাবে, টাইগ্রেসদের দুর্দান্ত বোলিংয়ে ৩১.২ ওভারে ১২৬ রানেই গুটিয়ে যায় প্রোটিয়ারা।

সফরকারী দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজ বাঁচাতে তৃতীয় ম্যাচে জয় ছাড়া কোনো পথ খোলা ছিল না স্বাগতিকদের। প্রথম ম্যাচে ৮৬ রানের বড় ব্যবধানে হারে বাংলাদেশ। পরের ম্যাচে হারের ব্যবধান ছিল ১৭ রানের।

কক্সবাজারের শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে আগে ব্যাটিংয়ে সিদ্ধান্ত নেয় বাংলাদেশের দলপতি রুমানা আহমেদ।
বাংলাদেশের ওপেনার শারমীন সুলতানা আর শারমীন আখতার ৪২ রানের জুটি গড়েন। জাতীয় দলের জার্সি গায়ে অভিষিক্ত শারমীন সুলতানা ২১ আর শারমীন আখতার ১৭ রানে বিদায় নেন। তিন নম্বরে নামা সানজিদা ইসলাম ১৬ রান করে সাজঘরে ফিরেন। দলপতি রুমানার উইলো থেকে আসে ইনিংস সর্বোচ্চ ২৮ রান।

উইকেটরক্ষক ব্যাটার নিগার সুলতানা খেলেন ২১ রানের ইনিংস। এছাড়া আর কোনো ব্যাটার দুই অঙ্কের ঘরে যেতে পারেননি।

বাংলাদেশের দেওয়া ১৩৭ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে শুরু থেকেই চাপে পড়ে দক্ষিণ আফ্রিকার নারীরা। খাদিজাতুল কুবরা ও জাহানারা আলমের বোলিং তোপে নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারাতে থাকে তারা। ফলে ১২৬ রানেই গুটিয়ে যায় সফরকারীরা।

দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৪৬ রান করেন লিজেলি লি। ৩১ বলে ৯টি চার ও ১টি ছক্কার সাহায্যে ঝড়ো ইনিংস খেলেন এ ওপেনার। এছাড়া শেষ পর্যন্ত ব্যাটিং করে ৬৫ বলে ৬টি চারে ৪২ রানে অপরাজিত থাকেন ভ্যান ড্যান নিকার্ক। শেষ উইকেটে মার্সিয়া লেটসাওলোর সঙ্গে ৩০ রানের জুটি গড়ে বাংলাদেশকে ভয় ঢুকিয়ে দিয়েছিলেন তিনি।

বাংলাদেশের পক্ষে ৩৩ রান দিয়ে ৪টি উইকেট পেয়েছেন খাদিজাতুল কুবরা। পান্না ঘোষ ও জাহানারা আলম পান ২টি করে উইকেট। এছাড়া সালমা খাতুন পেয়েছেন ১টি উইকেট।

আগামী ১৮ জানুয়ারি সিরিজের চতুর্থ ম্যাচে মাঠে নামবে বাংলাদেশ-দক্ষিণ আফ্রিকা। কক্সবাজারের শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে ম্যাচটি।

স্কোরবোর্ড
বাংলাদেশ মহিলা দল: ৪৯ ওভারে ১৩৬/১০ রান (শারমিন সুলতানা ২১, শারমিন আক্তার ১৭, সানজিদা ইসলাম ১৬, রুমানা আহমেদ ২৮, নিগার সুলতানা ২১, সালমা খাতুন ০, লতা মন্ডল ০, জাহানারা আলম ৫, নাহিদা আক্তার ০, পান্না ঘোষ ৬, খাদিজাতুল কুবরা ২*; মারিজানে কাপ ২/১৮, আয়াবোঙ্গা খাকা ১/২৬, মারসিয়া লেটসোয়ালো ১/১৮, ওডিনে ক্রিস্টেন ১/২০, সুনি লুইস ২/২৯, ড্যান ভ্যান নিকার্ক ২/১৮)

দক্ষিণ আফ্রিকা মহিলা দল: ৩১.২ ওভারে ১২৬/১০ রান (লিজেল লি ৪৬, আন্দ্রে স্টেইন ০, মিগনন ডি পেরেজ ৮, চাইলি ট্রায়ন ৪, মারিজানে কাপ ৪, ড্যান ভ্যান নিকার্ক ৪২*, সুনি লুইস ১, সিনালো জাফটা ০, আয়াবোঙ্গা খাকা ৬, ওডিনে ক্রিস্টেন ৫, মারসিয়া লেটসোয়ালো ১; পান্না ঘোষ ২/২৫, সালমা খাতুন ১/১৯, জাহানারা আলম ২/২১, লতা মন্ডল ০/১০, খাদিজাতুল কুবরা ৪/৩৩, রুমানা আহমেদ ০/১৭)

ফলাফল: বাংলাদেশ মহিলা দল ১০ রানে জয়ী
ম্যান অব দ্য ম্যাচ: খাদিজাতুল কুবরা (বাংলাদেশ)
সিরিজ: ৫ ম্যাচ সিরিজ ২-১ এ এগিয়ে দক্ষিণ আফ্রিকা মহিলা দল

jamunanews24.com/ali/16 january 2017
স্পোর্টস ডেস্ক: নিউজিল্যান্ডের ওয়েলিংটনে প্রথম চারদিনের লড়াইয়ের পর শেষ দিনে আত্মসম্পর্ণ যথাযথই ব্যথিত করেছিল বাংলাদেশের ক্রিকেট প্রেমীদের। কিন্তু হতাশ করেনি বাংলাদেশের প্রমীলা টাইগাররা।
পাঁচ ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের প্রথম দুই ওয়ানডেতে বড় হারে এমনিতেই ব্যাকফুটে ছিল বাংলাদেশ। তৃতীয় ম্যাচে দারুণ জয় তুলে নিয়েছে বাংলাদেশের মেয়েরা। সফরকারী দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টাইগ্রেসদের জয়টি ১০ রানের। খাদিজা, জাহানারা আর পান্নার বোলিং তোপে রোমাঞ্চকর জয় তুলে নেয় বাঘিনীরা। প্রথম দুই ম্যাচ হেরে তৃতীয় ম্যাচে জয় পাওয়ায় সিরিজে ঘুরে দাঁড়িয়ে ২-১ এ ব্যবধান কমিয়ে আনলো স্বাগতিকরা।

ঘুরে দাঁড়ানোর ম্যাচে আগে ব্যাট করে বাংলাদেশ নারী দল ৪৯ ওভারে মাত্র ১৩৬ রান তুলতেই অলআউট হয়। জবাবে, টাইগ্রেসদের দুর্দান্ত বোলিংয়ে ৩১.২ ওভারে ১২৬ রানেই গুটিয়ে যায় প্রোটিয়ারা।

সফরকারী দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজ বাঁচাতে তৃতীয় ম্যাচে জয় ছাড়া কোনো পথ খোলা ছিল না স্বাগতিকদের। প্রথম ম্যাচে ৮৬ রানের বড় ব্যবধানে হারে বাংলাদেশ। পরের ম্যাচে হারের ব্যবধান ছিল ১৭ রানের।

কক্সবাজারের শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে আগে ব্যাটিংয়ে সিদ্ধান্ত নেয় বাংলাদেশের দলপতি রুমানা আহমেদ।
বাংলাদেশের ওপেনার শারমীন সুলতানা আর শারমীন আখতার ৪২ রানের জুটি গড়েন। জাতীয় দলের জার্সি গায়ে অভিষিক্ত শারমীন সুলতানা ২১ আর শারমীন আখতার ১৭ রানে বিদায় নেন। তিন নম্বরে নামা সানজিদা ইসলাম ১৬ রান করে সাজঘরে ফিরেন। দলপতি রুমানার উইলো থেকে আসে ইনিংস সর্বোচ্চ ২৮ রান।

উইকেটরক্ষক ব্যাটার নিগার সুলতানা খেলেন ২১ রানের ইনিংস। এছাড়া আর কোনো ব্যাটার দুই অঙ্কের ঘরে যেতে পারেননি।

বাংলাদেশের দেওয়া ১৩৭ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে শুরু থেকেই চাপে পড়ে দক্ষিণ আফ্রিকার নারীরা। খাদিজাতুল কুবরা ও জাহানারা আলমের বোলিং তোপে নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারাতে থাকে তারা। ফলে ১২৬ রানেই গুটিয়ে যায় সফরকারীরা।

দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৪৬ রান করেন লিজেলি লি। ৩১ বলে ৯টি চার ও ১টি ছক্কার সাহায্যে ঝড়ো ইনিংস খেলেন এ ওপেনার। এছাড়া শেষ পর্যন্ত ব্যাটিং করে ৬৫ বলে ৬টি চারে ৪২ রানে অপরাজিত থাকেন ভ্যান ড্যান নিকার্ক। শেষ উইকেটে মার্সিয়া লেটসাওলোর সঙ্গে ৩০ রানের জুটি গড়ে বাংলাদেশকে ভয় ঢুকিয়ে দিয়েছিলেন তিনি।

বাংলাদেশের পক্ষে ৩৩ রান দিয়ে ৪টি উইকেট পেয়েছেন খাদিজাতুল কুবরা। পান্না ঘোষ ও জাহানারা আলম পান ২টি করে উইকেট। এছাড়া সালমা খাতুন পেয়েছেন ১টি উইকেট।

আগামী ১৮ জানুয়ারি সিরিজের চতুর্থ ম্যাচে মাঠে নামবে বাংলাদেশ-দক্ষিণ আফ্রিকা। কক্সবাজারের শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে ম্যাচটি।

স্কোরবোর্ড
বাংলাদেশ মহিলা দল: ৪৯ ওভারে ১৩৬/১০ রান (শারমিন সুলতানা ২১, শারমিন আক্তার ১৭, সানজিদা ইসলাম ১৬, রুমানা আহমেদ ২৮, নিগার সুলতানা ২১, সালমা খাতুন ০, লতা মন্ডল ০, জাহানারা আলম ৫, নাহিদা আক্তার ০, পান্না ঘোষ ৬, খাদিজাতুল কুবরা ২*; মারিজানে কাপ ২/১৮, আয়াবোঙ্গা খাকা ১/২৬, মারসিয়া লেটসোয়ালো ১/১৮, ওডিনে ক্রিস্টেন ১/২০, সুনি লুইস ২/২৯, ড্যান ভ্যান নিকার্ক ২/১৮)

দক্ষিণ আফ্রিকা মহিলা দল: ৩১.২ ওভারে ১২৬/১০ রান (লিজেল লি ৪৬, আন্দ্রে স্টেইন ০, মিগনন ডি পেরেজ ৮, চাইলি ট্রায়ন ৪, মারিজানে কাপ ৪, ড্যান ভ্যান নিকার্ক ৪২*, সুনি লুইস ১, সিনালো জাফটা ০, আয়াবোঙ্গা খাকা ৬, ওডিনে ক্রিস্টেন ৫, মারসিয়া লেটসোয়ালো ১; পান্না ঘোষ ২/২৫, সালমা খাতুন ১/১৯, জাহানারা আলম ২/২১, লতা মন্ডল ০/১০, খাদিজাতুল কুবরা ৪/৩৩, রুমানা আহমেদ ০/১৭)

ফলাফল: বাংলাদেশ মহিলা দল ১০ রানে জয়ী
ম্যান অব দ্য ম্যাচ: খাদিজাতুল কুবরা (বাংলাদেশ)
সিরিজ: ৫ ম্যাচ সিরিজ ২-১ এ এগিয়ে দক্ষিণ আফ্রিকা মহিলা দল

jamunanews24.com/ali/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 16:36:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 16:36:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43163/-
৫ মিনিটেই ২৬ জনের ফাঁসির রায় http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43164/-
যমুনা নিউজ: স্বাধীনতার পর বাংলাদেশে রেকর্ড সৃষ্টির মধ্য দিয়ে ঘোষণা হয়েছে বহুল আলোচিত ৭ খুন মামলার রায়। ইতোপূর্বে এক মামলায় ২৬ জনের মৃত্যুদণ্ডের ঘটনা বাংলাদেশে কখনো ঘটেনি। জেলা জজ সৈয়দ এনায়েত হোসেন মাত্র ৫ মিনিটেই ২৬ জনের রায় পড়ে শোনান।

৭ খুন মামলায় ফাঁসির দণ্ড পাওয়া ২৬ জনের মধ্যে ১৭ জনই র‌্যাব সদস্য। এদের মধ্যে তিন জন আবার বাহিনীটির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা। এদের মধ্যে আছেন র‌্যাব-১১ এর সাবেক অধিনায়ক তারেক সাঈদ মোহাম্মদ, বরখাস্ত কমান্ডার এম এম রানা এবং আরিফ হোসেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, সোমবার কড়া নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে সকাল ৯টায় নারায়ণগঞ্জ জেলা কারাগারে থাকা ১৮ আসামিকে কোর্ট হাজতে হাজির করা হয়। সকাল ৯টা ৪০ মিনিটে গাজীপুরের কাশিমপুর কারাগার থেকে আনা হয় মামলার প্রধান আসামি নূর হোসেন, লেফটেন্যান্ট কর্নেল (বরখাস্ত) তারেক সাঈদ মোহাম্মদ, মেজর (বরখাস্ত) আরিফ হোসেন, লেফটেন্যান্ট কমান্ডার (বরখাস্ত) এম এম রানাসহ পাঁচ আসামিকে।

৯টা ৪১ মিনিটে আদালতের কাঠগড়ায় তোলা হয় তাদের। নিরাপত্তার কারণে র‌্যাবের সাবেক তিন কর্মকর্তাকে কাঠগড়ার বাইরে এক কোণায় অন্যান্য আসামিদের থেকে পৃথক করে রাখা হয়। আর নিরাপত্তার স্বার্থে নূর হোসেনকে ডাণ্ডা বেড়ি পরিয়ে কাঠগড়ায় তোলা হয়।

এদিকে, তারেক সাঈদ, আরিফ হোসেন এবং এম এম রানাকে আদালতে হাজির করার সময় ডাণ্ডা বেড়ি পরিয়ে আনা হলেও আদালতের ভেতরে নেওয়ার পর তিন জনের ডাণ্ডা বেড়ি খুলে দেওয়া হয়। এ সময় তারা কাঠগড়ার সামনে নির্বিকার দাঁড়িয়ে ছিলেন।

পুলিশের এক কর্মকর্তা জানান, নূর হোসেনকে জুতা ও হেলমেট খুলে রেখে কাঠগড়ায় নেওয়া হয়। অন্যান্য আসামিদেরও জুতা খুলে রাখা হয়।

সকাল ১০টা ১১ মিনিটে আদালতে মামলার রায় ঘোষণা শুরু করেন জেলা জজ সৈয়দ এনায়েত হোসেন। মাত্র ৫ মিনিটের মধ্যে তিনি রায় পাঠ করা শেষ করেন। রায় ঘোষণার পর বেশ কয়েকজন আসামি কাঠগড়ায় কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন।

তবে নূর হোসেন, তার সহযোগী চার্চিল, র‌্যাবের সাবেক তিন কর্মকর্তা ছিলেন নির্বিকার। রায় ঘোষণার পর প্রায় ১৫ মিনিট আসামিদের কাঠগড়ায় রাখা হয়। তারপর আদালতের গারদে নিয়ে রাখা হয়।

jamunanews24.com/a.rahim/RP/16 January 2017
যমুনা নিউজ: স্বাধীনতার পর বাংলাদেশে রেকর্ড সৃষ্টির মধ্য দিয়ে ঘোষণা হয়েছে বহুল আলোচিত ৭ খুন মামলার রায়। ইতোপূর্বে এক মামলায় ২৬ জনের মৃত্যুদণ্ডের ঘটনা বাংলাদেশে কখনো ঘটেনি। জেলা জজ সৈয়দ এনায়েত হোসেন মাত্র ৫ মিনিটেই ২৬ জনের রায় পড়ে শোনান।
৭ খুন মামলায় ফাঁসির দণ্ড পাওয়া ২৬ জনের মধ্যে ১৭ জনই র‌্যাব সদস্য। এদের মধ্যে তিন জন আবার বাহিনীটির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা। এদের মধ্যে আছেন র‌্যাব-১১ এর সাবেক অধিনায়ক তারেক সাঈদ মোহাম্মদ, বরখাস্ত কমান্ডার এম এম রানা এবং আরিফ হোসেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, সোমবার কড়া নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে সকাল ৯টায় নারায়ণগঞ্জ জেলা কারাগারে থাকা ১৮ আসামিকে কোর্ট হাজতে হাজির করা হয়। সকাল ৯টা ৪০ মিনিটে গাজীপুরের কাশিমপুর কারাগার থেকে আনা হয় মামলার প্রধান আসামি নূর হোসেন, লেফটেন্যান্ট কর্নেল (বরখাস্ত) তারেক সাঈদ মোহাম্মদ, মেজর (বরখাস্ত) আরিফ হোসেন, লেফটেন্যান্ট কমান্ডার (বরখাস্ত) এম এম রানাসহ পাঁচ আসামিকে।

৯টা ৪১ মিনিটে আদালতের কাঠগড়ায় তোলা হয় তাদের। নিরাপত্তার কারণে র‌্যাবের সাবেক তিন কর্মকর্তাকে কাঠগড়ার বাইরে এক কোণায় অন্যান্য আসামিদের থেকে পৃথক করে রাখা হয়। আর নিরাপত্তার স্বার্থে নূর হোসেনকে ডাণ্ডা বেড়ি পরিয়ে কাঠগড়ায় তোলা হয়।

এদিকে, তারেক সাঈদ, আরিফ হোসেন এবং এম এম রানাকে আদালতে হাজির করার সময় ডাণ্ডা বেড়ি পরিয়ে আনা হলেও আদালতের ভেতরে নেওয়ার পর তিন জনের ডাণ্ডা বেড়ি খুলে দেওয়া হয়। এ সময় তারা কাঠগড়ার সামনে নির্বিকার দাঁড়িয়ে ছিলেন।

পুলিশের এক কর্মকর্তা জানান, নূর হোসেনকে জুতা ও হেলমেট খুলে রেখে কাঠগড়ায় নেওয়া হয়। অন্যান্য আসামিদেরও জুতা খুলে রাখা হয়।

সকাল ১০টা ১১ মিনিটে আদালতে মামলার রায় ঘোষণা শুরু করেন জেলা জজ সৈয়দ এনায়েত হোসেন। মাত্র ৫ মিনিটের মধ্যে তিনি রায় পাঠ করা শেষ করেন। রায় ঘোষণার পর বেশ কয়েকজন আসামি কাঠগড়ায় কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন।

তবে নূর হোসেন, তার সহযোগী চার্চিল, র‌্যাবের সাবেক তিন কর্মকর্তা ছিলেন নির্বিকার। রায় ঘোষণার পর প্রায় ১৫ মিনিট আসামিদের কাঠগড়ায় রাখা হয়। তারপর আদালতের গারদে নিয়ে রাখা হয়।

jamunanews24.com/a.rahim/RP/16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 16:36:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 16:36:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43164/-
ময়মনসিংহে বিভাগীয় শিক্ষক সমাবেশ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43162/- যমুনা নিউজ: শিক্ষা ব্যবস্থা জাতীয়করণের দাবিতে বিভাগীয় সমাবেশ করেছে ময়মনসিংহ জেলা শাখা শিক্ষক সমিতি।

সোমবার দুপুরে ময়মনসিংহ রেলওয়ে স্টেশন কৃষ্ণচূড়া চত্বরে এ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

ময়মনসিংহ জেলা শিক্ষক সমিতির সভাপতি ও সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির আহ্বায়ক শামছুন্নহারের সভাপতিত্বে সমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন  বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় শিক্ষক সমিতির সভাপতি মো. আবু বকর সিদ্দিক।

সমাবেশে বক্তারা শিক্ষা ব্যবস্থা জাতীয়করণ, শিক্ষা নীতি বাস্তবায়ন, নন এমপিওদের এমপিওভূক্ত করণ, উৎসব ভাতা ২৫ শতাংশ থেকে শতভাগ করাসহ নানা দাবি বাস্তবায়নের আহ্বান জানান।

jamunanews24.com/paltan/rana/16 january 2017
যমুনা নিউজ: শিক্ষা ব্যবস্থা জাতীয়করণের দাবিতে বিভাগীয় সমাবেশ করেছে ময়মনসিংহ জেলা শাখা শিক্ষক সমিতি।

সোমবার দুপুরে ময়মনসিংহ রেলওয়ে স্টেশন কৃষ্ণচূড়া চত্বরে এ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

ময়মনসিংহ জেলা শিক্ষক সমিতির সভাপতি ও সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির আহ্বায়ক শামছুন্নহারের সভাপতিত্বে সমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন  বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় শিক্ষক সমিতির সভাপতি মো. আবু বকর সিদ্দিক।

সমাবেশে বক্তারা শিক্ষা ব্যবস্থা জাতীয়করণ, শিক্ষা নীতি বাস্তবায়ন, নন এমপিওদের এমপিওভূক্ত করণ, উৎসব ভাতা ২৫ শতাংশ থেকে শতভাগ করাসহ নানা দাবি বাস্তবায়নের আহ্বান জানান।

jamunanews24.com/paltan/rana/16 january 2017
]]>
Mon, 16 Jan 2017 16:31:53 BDT Mon, 16 Jan 2017 16:31:53 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43162/-
কাজ পাগল কারিনা http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43161/- যমুনা নিউজ: বলিউড অভিনেত্রী ও নবাব বেগম কারিনা কাপুর খান গত ২০শে ডিসেম্বর মা হয়েছেন। তার মা হওয়া নিয়ে বলিউডে ব্যাপক আলোচনা চলেছে। চারদিকে হইচই পড়ে গেছে। আর হওয়াটাই তো স্বাভাবিক।

একদিকে বলিউডে কাপুর খানদান এবং অন্যদিকে নবাব পরিবারে নতুন নবাবের আবির্ভাব। এরই মধ্যে কারিনা ও সাইফ আলি খান তাদের সন্তান তৈমুর আলি খানকে নিয়ে বেড়াতে বিদেশ ভ্রমণেও চলে গেছেন।

সাধারণত সদ্য মা হওয়ার পর মেয়েরা স্বাভাবিক চলাফেরা একটু দেরি করেই শুরু করেন। কিন্তু কাজ পাগল কারিনার ক্ষেত্রে বিষয়টা একদমই আলাদা। মা হওয়ার সপ্তাহখানেক আগেও একটি ইভেন্টে অংশ নিয়েছেন। এর আগে টুকটাক কাজও করেছেন। আর এখন নতুন করে শোনা যাচ্ছে আগামী ফেব্রুয়ারিতেই পুরোদমে কাজে নিয়মিত হচ্ছেন বেবো।

একটি সূত্রের বরাত দিয়ে টাইমস অব ইন্ডিয়া জানাচ্ছে, আগামী মাসের শুরুর দিকে মুম্বইভিত্তিক একটি ফ্যাশন ব্র্যান্ডের র‌্যাম্প শোতে অংশগ্রহণের মধ্য দিয়ে সরব হচ্ছেন কারিনা।

সংবাদমাধ্যমটির প্রতিবেদনে আরো জানা যায়, এর পরেই অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার আগে নায়িকার বাকি থাকা ‘ভীর দ্য ওয়েডিং’ ছবির কাজ শুরু করবেন। এর পর আরো একটি নতুন ছবির কাজও হাতে আছে কারিনার। তবে সেটা এখনো চূড়ান্ত হয়নি।

jamunanews24.com/zobaida/nayon/16 january 2017
যমুনা নিউজ: বলিউড অভিনেত্রী ও নবাব বেগম কারিনা কাপুর খান গত ২০শে ডিসেম্বর মা হয়েছেন। তার মা হওয়া নিয়ে বলিউডে ব্যাপক আলোচনা চলেছে। চারদিকে হইচই পড়ে গেছে। আর হওয়াটাই তো স্বাভাবিক।

একদিকে বলিউডে কাপুর খানদান এবং অন্যদিকে নবাব পরিবারে নতুন নবাবের আবির্ভাব। এরই মধ্যে কারিনা ও সাইফ আলি খান তাদের সন্তান তৈমুর আলি খানকে নিয়ে বেড়াতে বিদেশ ভ্রমণেও চলে গেছেন।

সাধারণত সদ্য মা হওয়ার পর মেয়েরা স্বাভাবিক চলাফেরা একটু দেরি করেই শুরু করেন। কিন্তু কাজ পাগল কারিনার ক্ষেত্রে বিষয়টা একদমই আলাদা। মা হওয়ার সপ্তাহখানেক আগেও একটি ইভেন্টে অংশ নিয়েছেন। এর আগে টুকটাক কাজও করেছেন। আর এখন নতুন করে শোনা যাচ্ছে আগামী ফেব্রুয়ারিতেই পুরোদমে কাজে নিয়মিত হচ্ছেন বেবো।

একটি সূত্রের বরাত দিয়ে টাইমস অব ইন্ডিয়া জানাচ্ছে, আগামী মাসের শুরুর দিকে মুম্বইভিত্তিক একটি ফ্যাশন ব্র্যান্ডের র‌্যাম্প শোতে অংশগ্রহণের মধ্য দিয়ে সরব হচ্ছেন কারিনা।

সংবাদমাধ্যমটির প্রতিবেদনে আরো জানা যায়, এর পরেই অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার আগে নায়িকার বাকি থাকা ‘ভীর দ্য ওয়েডিং’ ছবির কাজ শুরু করবেন। এর পর আরো একটি নতুন ছবির কাজও হাতে আছে কারিনার। তবে সেটা এখনো চূড়ান্ত হয়নি।

jamunanews24.com/zobaida/nayon/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 16:29:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 16:29:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43161/-
রামুতে অস্ত্র-মাদকসহ আটক ২ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43160/- যমুনা নিউজ, চট্টগ্রাম ব্যুরো: কক্সবাজরের রামু উপজেলায় ডাকাতির প্রস্তুতিকালে দেশিয় অস্ত্র ও মাদকসহ ২ জনকে আটক করেছে র‌্যাব।
 
এসময় তাদের কাছ থেকে ১টি ওয়ান শুটার গান,  ১টি এক নলা বন্দুক,  ৩ রাউন্ড গুলি,  ৩টি ছোরা এবং ৪ হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট জব্দ করা হয়।

সোমবার ভোরে উপজেলার রামু বাগান এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়।
 
আটককৃতরা হলেন- শাহিনুর রহমান (২৪) ও শফিউল আলম (১৮)।

র‌্যাব-৭ এর সিনিয়র সহকারি পরিচালক সোহেল মাহমুদ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, আটক শাহিনুর রহমানের বিরুদ্ধে রামু এবং নাইক্ষ্যংছড়ি থানায় অস্ত্র, ডাকাতি এবং চাঁদাবাজিসহ মোট ১০টি মামলা রয়েছে।
 
jamunanews24.com/jamil/rana/16 january 2017




 
যমুনা নিউজ, চট্টগ্রাম ব্যুরো: কক্সবাজরের রামু উপজেলায় ডাকাতির প্রস্তুতিকালে দেশিয় অস্ত্র ও মাদকসহ ২ জনকে আটক করেছে র‌্যাব।
 
এসময় তাদের কাছ থেকে ১টি ওয়ান শুটার গান,  ১টি এক নলা বন্দুক,  ৩ রাউন্ড গুলি,  ৩টি ছোরা এবং ৪ হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট জব্দ করা হয়।

সোমবার ভোরে উপজেলার রামু বাগান এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়।
 
আটককৃতরা হলেন- শাহিনুর রহমান (২৪) ও শফিউল আলম (১৮)।

র‌্যাব-৭ এর সিনিয়র সহকারি পরিচালক সোহেল মাহমুদ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, আটক শাহিনুর রহমানের বিরুদ্ধে রামু এবং নাইক্ষ্যংছড়ি থানায় অস্ত্র, ডাকাতি এবং চাঁদাবাজিসহ মোট ১০টি মামলা রয়েছে।
 
jamunanews24.com/jamil/rana/16 january 2017




  ]]>
Mon, 16 Jan 2017 16:18:52 BDT Mon, 16 Jan 2017 16:18:52 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43160/-
রণবীরের সঙ্গে সোনমের বিয়ে http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43159/- যমুনা নিউজ: বলিউডে কয়েকজন রয়েছেন ব্যাচেলর। এর মধ্যে রণবীর অন্যতম। তার সঙ্গে কখনো ক্যাটরিনা কাইফকে নির্জন সমুদ্র সৈকতে দেখা গেছে। আবার কখনো দীপিকা পাড়ুকোনের সঙ্গে তার অনবদ্য কেমিস্ট্রি নিয়ে নানা গল্প ছড়িয়েছে।

কিন্তু রণবীর কাপুর কার সঙ্গে রিলেশনশিপে রয়েছেন, তা নিয়ে রহস্যের জাল রয়েই গেছে। কার সঙ্গে শেষ পর্যন্ত ঘর বাঁধবেন রণবীর, বলিউডের অন্দরমহলের কাছেও তা স্পষ্ট হচ্ছে না। কিন্তু রণবীরের বিয়ে সম্পর্কে ‘কফি উইথ করণ’-এ রণবীরের চাচাতো বোন কারিনা কাপুর যা জানালেন, তাকে বিস্ফোরক বললেও কম বলা হয়। সোনম কাপুরের সঙ্গে রণবীরের বিয়ের কথা বললেন তিনি!

‘বীরে দি ওয়েডিং’ ছবিতে কারিনা এবং সোনমকে একসঙ্গে দেখা যাবে। ছবিটি মুক্তির আগে করণ জোহরের জনপ্রিয় শো-য়ে মুখ দেখিয়েছেন কারিনা-সোনম। শুধু সহ-অভিনেতা নন, কারিনা-সোনম পরস্পরের খুব ভালো বন্ধুও। শুধু কারিনা নন, তার বোন করিশমার সঙ্গেও সোনমের সম্পর্ক বেশ ভালো।

যেকোনো বিষয়ে কাপুর পরিবারের এই দুই বোনকে সোনমের পাশে দাঁড়াতে দেখা যায়। কারিনা এবার প্রকাশ্যে জানিয়ে দিলেন যে, তারা দুই বোন তাদের ভাই রণবীরের পাশে সোনমকে দেখতে চাইছেন। রণবীর-সোনম রোমান্সের গল্প কিন্তু বলিউডে নতুন নয়। সঞ্জয় লীলা বানশালীর ছবি ‘সাওয়ারিয়া’তে দুইজনেরই অভিষেক হয়েছিল। তখনই দুইজনকে নিয়ে গুঞ্জন ছিল। পরে তা থেমে যায়।

কিন্তু কারিনা ‘কফি উইথ করণ’-এ যা জানিয়েছেন, তাতে আবার গুঞ্জন শুরু হতেই পারে। কারিনা জানিয়েছেন, তিনি ও তার বোন করিশমা চান, ভাই রণবীরের সঙ্গে সোনমের বিয়ে হোক। করিনার এই মন্তব্যের সময় পাশেই ছিলেন সোনম। তিনি এক গাল হেসেই যোগ দিয়েছেন সে আলোচনায়।

jamunanews24.com/zobaida/RP/16 January 2017
যমুনা নিউজ: বলিউডে কয়েকজন রয়েছেন ব্যাচেলর। এর মধ্যে রণবীর অন্যতম। তার সঙ্গে কখনো ক্যাটরিনা কাইফকে নির্জন সমুদ্র সৈকতে দেখা গেছে। আবার কখনো দীপিকা পাড়ুকোনের সঙ্গে তার অনবদ্য কেমিস্ট্রি নিয়ে নানা গল্প ছড়িয়েছে।

কিন্তু রণবীর কাপুর কার সঙ্গে রিলেশনশিপে রয়েছেন, তা নিয়ে রহস্যের জাল রয়েই গেছে। কার সঙ্গে শেষ পর্যন্ত ঘর বাঁধবেন রণবীর, বলিউডের অন্দরমহলের কাছেও তা স্পষ্ট হচ্ছে না। কিন্তু রণবীরের বিয়ে সম্পর্কে ‘কফি উইথ করণ’-এ রণবীরের চাচাতো বোন কারিনা কাপুর যা জানালেন, তাকে বিস্ফোরক বললেও কম বলা হয়। সোনম কাপুরের সঙ্গে রণবীরের বিয়ের কথা বললেন তিনি!

‘বীরে দি ওয়েডিং’ ছবিতে কারিনা এবং সোনমকে একসঙ্গে দেখা যাবে। ছবিটি মুক্তির আগে করণ জোহরের জনপ্রিয় শো-য়ে মুখ দেখিয়েছেন কারিনা-সোনম। শুধু সহ-অভিনেতা নন, কারিনা-সোনম পরস্পরের খুব ভালো বন্ধুও। শুধু কারিনা নন, তার বোন করিশমার সঙ্গেও সোনমের সম্পর্ক বেশ ভালো।

যেকোনো বিষয়ে কাপুর পরিবারের এই দুই বোনকে সোনমের পাশে দাঁড়াতে দেখা যায়। কারিনা এবার প্রকাশ্যে জানিয়ে দিলেন যে, তারা দুই বোন তাদের ভাই রণবীরের পাশে সোনমকে দেখতে চাইছেন। রণবীর-সোনম রোমান্সের গল্প কিন্তু বলিউডে নতুন নয়। সঞ্জয় লীলা বানশালীর ছবি ‘সাওয়ারিয়া’তে দুইজনেরই অভিষেক হয়েছিল। তখনই দুইজনকে নিয়ে গুঞ্জন ছিল। পরে তা থেমে যায়।

কিন্তু কারিনা ‘কফি উইথ করণ’-এ যা জানিয়েছেন, তাতে আবার গুঞ্জন শুরু হতেই পারে। কারিনা জানিয়েছেন, তিনি ও তার বোন করিশমা চান, ভাই রণবীরের সঙ্গে সোনমের বিয়ে হোক। করিনার এই মন্তব্যের সময় পাশেই ছিলেন সোনম। তিনি এক গাল হেসেই যোগ দিয়েছেন সে আলোচনায়।

jamunanews24.com/zobaida/RP/16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 16:15:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 16:15:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43159/-
এই রায় বিপথগামী আইনশৃঙ্খলা সদস্যদের জন্য বড় মেসেজ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43158/-
যমুনা নিউজ: র‌্যাব সদস্যদের ফাঁসি হওয়ায় প্রমাণ হয়েছে কেউ আইনের ঊর্ধ্বে নয়। সাত খুন মামলার রায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর বিপথগামী সদস্যদের জন্য একটি বড় ‘মেসেজ’ বলে মনে করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।

সোমবার সচিবালয়ে নিজ দফতরে নারায়ণগঞ্জের সাত খুন মামলার রায় নিয়ে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন তিনি।

বহুল আলোচিত ৭ খুন মামলায় ফাঁসির দণ্ড পাওয়া ২৬ জনের মধ্যে ১৭ জনেই র‌্যাব সদস্য। এদের মধ্যে তিন জন আবার বাহিনীটির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা। এদের মধ্যে আছেন র‌্যাব-১১ এর সাবেক অধিনায়ক তারেক সাঈদ মোহাম্মদ, বরখাস্ত কমান্ডার এম এম রানা এবং আরিফ হোসেন।

এই রায় ঘোষণার পর প্রতিক্রিয়া জানতে সচিবালয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর দপ্তরে যান সাংবাদিকরা। তিনি বলেন, নারায়ণগঞ্জে সাত খুনের ঘটনায় ২৬ জনের ফাঁসির রায় হয়েছে। এ রায়ে প্রমাণ হয়েছে দেশে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠিত রয়েছে।

২০১৪ সালের ২৭ এপ্রিল সাত জনকে অপহরণের পর থেকেই এই ঘটনায় র‌্যাবের সম্পৃক্ততার অভিযোগ ওঠে। পরে তদন্তে প্রমাণ হয় নারায়ণগঞ্জের কাউন্সিলর নুর হোসেনের কাছ থেকে টাকা নিয়ে র‌্যাব এই হত্যা করেছে। এই ঘটনায় সমালোচনার মুখে পড়ে বাহিনীটি।

এই রায় হওয়ায় র‌্যাবের সংস্কারের কানো চিন্তা আছে কি না-জানতে চাওয়া হয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে। জবাবে তিনি বলেন, র‌্যাবের সংস্কারের প্রয়োজন নেই। কারণ প্রচলিত আইনেই বিপথগামী সদস্যদের বিচার হচ্ছে। ভুক্তভোগী পরিবার বিচার পাচ্ছে। সেক্ষেত্রে বাহিনীর আইনে কোনো সংস্কার করা দরকার আছে বলে আমি মনে করি না।’

jamunanews24.com/a.rahim/anis/16 january 2017
যমুনা নিউজ: র‌্যাব সদস্যদের ফাঁসি হওয়ায় প্রমাণ হয়েছে কেউ আইনের ঊর্ধ্বে নয়। সাত খুন মামলার রায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর বিপথগামী সদস্যদের জন্য একটি বড় ‘মেসেজ’ বলে মনে করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।
সোমবার সচিবালয়ে নিজ দফতরে নারায়ণগঞ্জের সাত খুন মামলার রায় নিয়ে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন তিনি।

বহুল আলোচিত ৭ খুন মামলায় ফাঁসির দণ্ড পাওয়া ২৬ জনের মধ্যে ১৭ জনেই র‌্যাব সদস্য। এদের মধ্যে তিন জন আবার বাহিনীটির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা। এদের মধ্যে আছেন র‌্যাব-১১ এর সাবেক অধিনায়ক তারেক সাঈদ মোহাম্মদ, বরখাস্ত কমান্ডার এম এম রানা এবং আরিফ হোসেন।

এই রায় ঘোষণার পর প্রতিক্রিয়া জানতে সচিবালয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর দপ্তরে যান সাংবাদিকরা। তিনি বলেন, নারায়ণগঞ্জে সাত খুনের ঘটনায় ২৬ জনের ফাঁসির রায় হয়েছে। এ রায়ে প্রমাণ হয়েছে দেশে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠিত রয়েছে।

২০১৪ সালের ২৭ এপ্রিল সাত জনকে অপহরণের পর থেকেই এই ঘটনায় র‌্যাবের সম্পৃক্ততার অভিযোগ ওঠে। পরে তদন্তে প্রমাণ হয় নারায়ণগঞ্জের কাউন্সিলর নুর হোসেনের কাছ থেকে টাকা নিয়ে র‌্যাব এই হত্যা করেছে। এই ঘটনায় সমালোচনার মুখে পড়ে বাহিনীটি।

এই রায় হওয়ায় র‌্যাবের সংস্কারের কানো চিন্তা আছে কি না-জানতে চাওয়া হয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে। জবাবে তিনি বলেন, র‌্যাবের সংস্কারের প্রয়োজন নেই। কারণ প্রচলিত আইনেই বিপথগামী সদস্যদের বিচার হচ্ছে। ভুক্তভোগী পরিবার বিচার পাচ্ছে। সেক্ষেত্রে বাহিনীর আইনে কোনো সংস্কার করা দরকার আছে বলে আমি মনে করি না।’

jamunanews24.com/a.rahim/anis/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 16:14:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 16:14:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43158/-
আন্দোলনের হুমকি বিসিএস সাধারণ শিক্ষা সমিতির http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43157/- যমুনা নিউজ, চট্টগ্রাম ব্যুরো: বেসরকারি কলেজের শিক্ষকদের ক্যাডারভূক্ত করার পাঁয়তারা চলছে জানিয়ে বিসিএস শিক্ষা ক্যাডারের অস্তিত্ব রক্ষায় কঠোর আন্দোলনের হুমকি দিয়েছে বিসিএস সাধারণ শিক্ষা সমিতি।

সোমবার সকালে চট্টগ্রাম প্রেসক্লাব মিলনায়তনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এ আন্দোলনের হুমিক দেন  সংগঠনের চট্টগ্রাম শাখার নেতারা।

প্রধানমন্ত্রীর অনুশাসন ও জাতীয় শিক্ষানীতি-২০১০ এ সুস্পষ্ট নির্দেশনা থাকার পরও সংশ্লিষ্টরা বিধিমালা প্রণয়ন করছেন না বলে অভিযোগ করে সাধারণ শিক্ষা সমিতি চট্টগ্রাম সাংগঠনিক বিভাগের সহ সভাপতি অধ্যাপক সুকুমার দত্ত বলেন, বর্তমান সরকারের সময়ে প্রধানমন্ত্রীর উদ্যোগে প্রায় ২৬ হাজার বেসরকারি রেজিস্ট্রার্ড প্রাথমিক বিদ্যালয় জাতীয়করণ হয়েছে। ৩২৫ বেসরকারি স্কুল জাতীয়করণ প্রক্রিয়াধীন রয়েছে এবং ৩১৫ বেসরকারি কলেজের জাতীয়করণকে আলাদা করে দেখার সুযোগ নেই।

কিন্তু দুর্ভাগ্যের বিষয় জাতীয়করণের এ মহৎ উদ্যোগকে বির্তকিত করার জন্য সংশ্লিষ্ট বেসরকারি কলেজের শিক্ষকদেরকে ক্যাডারভূক্ত করার পাঁয়তারা চলছে। যা কোনভাবেই হতে দেয়া যাবে না। ২০১০ সালে জাতীয় শিক্ষানীতি প্রণীত হলেও সুস্পষ্ট নির্দেশনা থাকার পরও প্রায় ৭ বছরেও জাতীয়করণের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট কলেজের শিক্ষকদের জন্য স্বতন্ত্র চাকরি নীতিমালা প্রণীত হয়নি।

তিনি আরও বলেন, বেসরকারি কলেজ জাতীয়করণের সরকারি উদ্যোগের সঙ্গে আমরা একমত। তবে সংশ্লিষ্ট কলেজগুলোতে কর্মরত শিক্ষকদের জন্য পৃথক নিয়োগ, পদায়ন, জৈষ্ঠতা, পদোন্নতি, পরিচালনাসহ তাদের ক্যাডার বহির্ভূত করে চাকরির শর্ত নির্ধারণ করে নীতিমালা প্রণয়ন করে প্রক্রিয়াটি বাস্তবায়ন করা প্রয়োজন।

jamunanews24.com/Jamil/sa/rana/16 Jan 2017



 
যমুনা নিউজ, চট্টগ্রাম ব্যুরো: বেসরকারি কলেজের শিক্ষকদের ক্যাডারভূক্ত করার পাঁয়তারা চলছে জানিয়ে বিসিএস শিক্ষা ক্যাডারের অস্তিত্ব রক্ষায় কঠোর আন্দোলনের হুমকি দিয়েছে বিসিএস সাধারণ শিক্ষা সমিতি।

সোমবার সকালে চট্টগ্রাম প্রেসক্লাব মিলনায়তনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এ আন্দোলনের হুমিক দেন  সংগঠনের চট্টগ্রাম শাখার নেতারা।

প্রধানমন্ত্রীর অনুশাসন ও জাতীয় শিক্ষানীতি-২০১০ এ সুস্পষ্ট নির্দেশনা থাকার পরও সংশ্লিষ্টরা বিধিমালা প্রণয়ন করছেন না বলে অভিযোগ করে সাধারণ শিক্ষা সমিতি চট্টগ্রাম সাংগঠনিক বিভাগের সহ সভাপতি অধ্যাপক সুকুমার দত্ত বলেন, বর্তমান সরকারের সময়ে প্রধানমন্ত্রীর উদ্যোগে প্রায় ২৬ হাজার বেসরকারি রেজিস্ট্রার্ড প্রাথমিক বিদ্যালয় জাতীয়করণ হয়েছে। ৩২৫ বেসরকারি স্কুল জাতীয়করণ প্রক্রিয়াধীন রয়েছে এবং ৩১৫ বেসরকারি কলেজের জাতীয়করণকে আলাদা করে দেখার সুযোগ নেই।

কিন্তু দুর্ভাগ্যের বিষয় জাতীয়করণের এ মহৎ উদ্যোগকে বির্তকিত করার জন্য সংশ্লিষ্ট বেসরকারি কলেজের শিক্ষকদেরকে ক্যাডারভূক্ত করার পাঁয়তারা চলছে। যা কোনভাবেই হতে দেয়া যাবে না। ২০১০ সালে জাতীয় শিক্ষানীতি প্রণীত হলেও সুস্পষ্ট নির্দেশনা থাকার পরও প্রায় ৭ বছরেও জাতীয়করণের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট কলেজের শিক্ষকদের জন্য স্বতন্ত্র চাকরি নীতিমালা প্রণীত হয়নি।

তিনি আরও বলেন, বেসরকারি কলেজ জাতীয়করণের সরকারি উদ্যোগের সঙ্গে আমরা একমত। তবে সংশ্লিষ্ট কলেজগুলোতে কর্মরত শিক্ষকদের জন্য পৃথক নিয়োগ, পদায়ন, জৈষ্ঠতা, পদোন্নতি, পরিচালনাসহ তাদের ক্যাডার বহির্ভূত করে চাকরির শর্ত নির্ধারণ করে নীতিমালা প্রণয়ন করে প্রক্রিয়াটি বাস্তবায়ন করা প্রয়োজন।

jamunanews24.com/Jamil/sa/rana/16 Jan 2017



  ]]>
Mon, 16 Jan 2017 16:04:48 BDT Mon, 16 Jan 2017 16:04:48 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43157/-
অফিসেই ওজন কমান http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43156/- যমুনা নিউজ: অফিসে বসে কাজ? ওজন বাড়ছে, সে তো বাড়বেই। প্রতিদিন আট থেকে নয় ঘণ্টা এক জায়গায় বসে থাকলে শরীর চালনা হয় না। ফলে ক্যালোরিও পোড়ে না পর্যাপ্ত পরিমাণ। আর তার ফলেই বেড়ে যায় ওজন। এই সমস্যা বোধ হয় প্রায় ১০ জনের মধ্যে আটজন অফিস কর্মীরই।

চিন্তার কোনো কারণ নেই। কারণ অফিসে থেকেও শরীর থেকে অতিরিক্ত ফ্যাট ঝরিয়ে ফেলার উপায় আছে। এর জন্য আপনাকে আলাদা করে সময় বের করতে হবে না। কাজ করতে করতে অনায়াসেই এই সহজ কয়েকটি পথ অনুসরণ করতে পারেন আপনি। আর তাতে সমস্যা মিটবে আপনার।


কাজের মাঝে বিরতি নিন। অনেকক্ষণ এক নাগাড়ে কাজ করার মাঝে এক দুইবার নিজের চেয়ার থেকে উঠুন। কফি খান। রিলাক্স করুন। তাতে আপনার শরীরের চালনা হবে।

পানি খান বেশি করে। অনেকক্ষণ এক জায়গায় বসে থাকলে শুধু চর্বি বাড়ে তা নয় হজমেও গণ্ডগোল হয়। তাই বেশি করে পানি খান। এতে আপনার হজমের সমস্যাও দূর হবে আবার ক্যালোরি পুড়তে সাহয্য করবে। পটাসিয়াম সমৃদ্ধ খাদ্য বেশি করে খান। এতে ক্যালোরি পোড়ার পরিমাণ বাড়ে। অ্যাভোকাডো, নারিকেলের পানি এসবে পটাসিয়ামের পরিমাণ বেশি থাকে।

অবসরের খাবারের দিকে নজর রাখুন। বেশি ক্যালোরি যুক্ত খাবার খাওয়া কখনোওই উচিত নয়। বিশেষত যে সব খাবারে সুগার বেশি সেসব খাবারও বেশি খাবেন না। যেমন: চকলেট, আইসক্রিম।
চেয়ারে বসেই কিছু অল্প ব্যায়াম করুন। এতে আপনার শরীরে প্রতিদিন এক শ’র বেশি ক্যালোরি পুড়তে পারে। চেয়ারে বসেই আপনার পা মাটিতে ঠেকিয়ে রাখুন। এবার আপনার শরীরের উপরের ভাগকে একবার একদিকে যতটা সম্ভব ঘোরানোর চেষ্টা করুন। আবার বিপরীত দিকেও একই ভাবে ঘোরান আপনার শরীর। দিনে অন্তত দশ বার করে এই ব্যায়াম করুন চেয়ারে বসে।

পা মেঝে থেকে অল্প উপরে তুলে রাখুন। এবার দুই পায়ের পাতাকে উপর দিকে করে নিজের শরীরের দিকে টেনে রাখুন দশ সেকেন্ড। এবার ছেড়ে দিয়ে ঠিক উল্টো দিকে অর্থাৎ শরীরের বাইরের দিকে ঠেলে দিন পায়ের পাতাকে। এই ভাবে দশ সেকেন্ড রাখুন। এই ব্যায়ামে আপনার ক্যালোরিও ঝড়বে আবার পায়ের ব্যাথাও কম হবে।

jamunanews24.com/zobaida/RP/16 January 2017
যমুনা নিউজ: অফিসে বসে কাজ? ওজন বাড়ছে, সে তো বাড়বেই। প্রতিদিন আট থেকে নয় ঘণ্টা এক জায়গায় বসে থাকলে শরীর চালনা হয় না। ফলে ক্যালোরিও পোড়ে না পর্যাপ্ত পরিমাণ। আর তার ফলেই বেড়ে যায় ওজন। এই সমস্যা বোধ হয় প্রায় ১০ জনের মধ্যে আটজন অফিস কর্মীরই।

চিন্তার কোনো কারণ নেই। কারণ অফিসে থেকেও শরীর থেকে অতিরিক্ত ফ্যাট ঝরিয়ে ফেলার উপায় আছে। এর জন্য আপনাকে আলাদা করে সময় বের করতে হবে না। কাজ করতে করতে অনায়াসেই এই সহজ কয়েকটি পথ অনুসরণ করতে পারেন আপনি। আর তাতে সমস্যা মিটবে আপনার।

কাজের মাঝে বিরতি নিন। অনেকক্ষণ এক নাগাড়ে কাজ করার মাঝে এক দুইবার নিজের চেয়ার থেকে উঠুন। কফি খান। রিলাক্স করুন। তাতে আপনার শরীরের চালনা হবে।

পানি খান বেশি করে। অনেকক্ষণ এক জায়গায় বসে থাকলে শুধু চর্বি বাড়ে তা নয় হজমেও গণ্ডগোল হয়। তাই বেশি করে পানি খান। এতে আপনার হজমের সমস্যাও দূর হবে আবার ক্যালোরি পুড়তে সাহয্য করবে। পটাসিয়াম সমৃদ্ধ খাদ্য বেশি করে খান। এতে ক্যালোরি পোড়ার পরিমাণ বাড়ে। অ্যাভোকাডো, নারিকেলের পানি এসবে পটাসিয়ামের পরিমাণ বেশি থাকে।

অবসরের খাবারের দিকে নজর রাখুন। বেশি ক্যালোরি যুক্ত খাবার খাওয়া কখনোওই উচিত নয়। বিশেষত যে সব খাবারে সুগার বেশি সেসব খাবারও বেশি খাবেন না। যেমন: চকলেট, আইসক্রিম।
চেয়ারে বসেই কিছু অল্প ব্যায়াম করুন। এতে আপনার শরীরে প্রতিদিন এক শ’র বেশি ক্যালোরি পুড়তে পারে। চেয়ারে বসেই আপনার পা মাটিতে ঠেকিয়ে রাখুন। এবার আপনার শরীরের উপরের ভাগকে একবার একদিকে যতটা সম্ভব ঘোরানোর চেষ্টা করুন। আবার বিপরীত দিকেও একই ভাবে ঘোরান আপনার শরীর। দিনে অন্তত দশ বার করে এই ব্যায়াম করুন চেয়ারে বসে।

পা মেঝে থেকে অল্প উপরে তুলে রাখুন। এবার দুই পায়ের পাতাকে উপর দিকে করে নিজের শরীরের দিকে টেনে রাখুন দশ সেকেন্ড। এবার ছেড়ে দিয়ে ঠিক উল্টো দিকে অর্থাৎ শরীরের বাইরের দিকে ঠেলে দিন পায়ের পাতাকে। এই ভাবে দশ সেকেন্ড রাখুন। এই ব্যায়ামে আপনার ক্যালোরিও ঝড়বে আবার পায়ের ব্যাথাও কম হবে।

jamunanews24.com/zobaida/RP/16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 16:00:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 16:00:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43156/-
এমপি লিটন হত্যা: জামায়াতের আরো ৩ নেতাকর্মী গ্রেফতার http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43155/- যমুনা নিউজ: গাইবান্ধা-১ (সুন্দরগঞ্জ) আসনের সংসদ সদস্য (এমপি) মঞ্জুরুল ইসলাম লিটন হত্যা মামলায় জড়িত সন্দেহে জামায়াতের আরো তিন নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সোমবার সকালে উপজেলার হরিপুর ইউনিয়নের চর চরিতাপাড়া ও বামনডাঙ্গা ইউনিয়নের রামভদ্র গ্রাম থেকে তাদের আটক করা হয়।

আটকরা হলেন- হরিপুর ইউনিয়নের দুই নং ওয়ার্ডের জামায়াতের সভাপতি আলাউদ্দিন ও সাবেক সভাপতি রফাত উদ্দিন ও রামভদ্র গ্রামের বাসিন্দা জামায়াত কর্মী আল আমিন সরকার।

সুন্দরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আতিয়ার রহমান জানান, লিটন হত্যা মামলায় জড়িত সন্দেহে তাদের গ্রেফতার করা হয়। এছাড়া তাদের বিরুদ্ধে সুন্দরগঞ্জ থানায় বিস্ফোরক আইনে মামলা রয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ শেষে তাদের আদালতে পাঠানো হবে।

jamunanews24.com/forhad/sa/rana/16 Jan 2017
যমুনা নিউজ: গাইবান্ধা-১ (সুন্দরগঞ্জ) আসনের সংসদ সদস্য (এমপি) মঞ্জুরুল ইসলাম লিটন হত্যা মামলায় জড়িত সন্দেহে জামায়াতের আরো তিন নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সোমবার সকালে উপজেলার হরিপুর ইউনিয়নের চর চরিতাপাড়া ও বামনডাঙ্গা ইউনিয়নের রামভদ্র গ্রাম থেকে তাদের আটক করা হয়।

আটকরা হলেন- হরিপুর ইউনিয়নের দুই নং ওয়ার্ডের জামায়াতের সভাপতি আলাউদ্দিন ও সাবেক সভাপতি রফাত উদ্দিন ও রামভদ্র গ্রামের বাসিন্দা জামায়াত কর্মী আল আমিন সরকার।

সুন্দরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আতিয়ার রহমান জানান, লিটন হত্যা মামলায় জড়িত সন্দেহে তাদের গ্রেফতার করা হয়। এছাড়া তাদের বিরুদ্ধে সুন্দরগঞ্জ থানায় বিস্ফোরক আইনে মামলা রয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ শেষে তাদের আদালতে পাঠানো হবে।

jamunanews24.com/forhad/sa/rana/16 Jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 15:59:13 BDT Mon, 16 Jan 2017 15:59:13 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43155/-
রাজশাহীতে দুই কেজি হেরোইন উদ্ধার http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43154/- যমুনা নিউজ: রাজশাহীর গোদাগাড়ী সীমান্ত থেকে দুই কেজি হেরোইন উদ্ধার করেছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)।

সোমবার সকাল ৭টার দিকে উপজেলার মৌলভী ক্যানেল পদ্মারচর এলাকা থেকে পরিত্যক্ত অবস্থায় এসব হেরোইন উদ্ধার করা হয়।  

এ তথ্য নিশ্চিত করেন রাজশাহী-১ বিজিবির অধিনায়ক সোহেল উদ্দিন পাঠান।

তিনি জানান, সকালে টহল কমান্ডার সুবেদার রেজাউল করিমের নেতৃত্বে বিজিবির গোদাগাড়ী সীমান্ত ফাঁড়ির একটি দল ওই এলাকায় নিয়মিত টহল দিচ্ছিল। এসময় পরিত্যক্ত অবস্থায় দুই কেজি হেরোইন উদ্ধার করা হয়।

তিনি আরও জানান, বিজিবি সদস্যদের উপস্থিতি টের পেয়ে পালিয়ে যাওয়ায় চোরাকারবারিদের গ্রেফতার করা যায়নি। এনিয়ে গোদাগাড়ী মডেল থানায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে।

jamunanews24.com/sa/rana/16 Jan 2017
যমুনা নিউজ: রাজশাহীর গোদাগাড়ী সীমান্ত থেকে দুই কেজি হেরোইন উদ্ধার করেছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)।

সোমবার সকাল ৭টার দিকে উপজেলার মৌলভী ক্যানেল পদ্মারচর এলাকা থেকে পরিত্যক্ত অবস্থায় এসব হেরোইন উদ্ধার করা হয়।  

এ তথ্য নিশ্চিত করেন রাজশাহী-১ বিজিবির অধিনায়ক সোহেল উদ্দিন পাঠান।

তিনি জানান, সকালে টহল কমান্ডার সুবেদার রেজাউল করিমের নেতৃত্বে বিজিবির গোদাগাড়ী সীমান্ত ফাঁড়ির একটি দল ওই এলাকায় নিয়মিত টহল দিচ্ছিল। এসময় পরিত্যক্ত অবস্থায় দুই কেজি হেরোইন উদ্ধার করা হয়।

তিনি আরও জানান, বিজিবি সদস্যদের উপস্থিতি টের পেয়ে পালিয়ে যাওয়ায় চোরাকারবারিদের গ্রেফতার করা যায়নি। এনিয়ে গোদাগাড়ী মডেল থানায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে।

jamunanews24.com/sa/rana/16 Jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 15:52:56 BDT Mon, 16 Jan 2017 15:52:56 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43154/-
জামিন পেলেন কল্যাণ কোরাইয়া http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43153/- যমুনা নিউজ: প্রথম আলোর প্রধান আলোকচিত্র সাংবাদিক জিয়া ইসলামকে গাড়ি দিয়ে ধাক্কা দেয়ার ঘটনায় করা মামলায় কল্যাণ কোরাইয়াকে জামিন দিয়েছেন আদালত।

আজ সোমবার ঢাকার অতিরিক্ত মুখ্য মহানগর কায়সারুল ইসলাম এ আদেশ দেন।

গত ৯ জানুয়ারি সোমবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে বসুন্ধরা শপিংমলের সামনের সড়কে একটি গাড়ি জিয়ার মোটরসাইকেলকে পেছন থেকে ধাক্কা দেয়।

দুর্ঘটনার পর জিয়া অচেতন অবস্থায় রাস্তায় পড়ে ছিলেন। ঘটনাস্থলে উপস্থিত কয়েকজন সাংবাদিক তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান। তাকে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) স্থানান্তর করা হয়।

চিকিৎসকেরা জানান, তার একটি পা ভেঙে গেছে। তবে সবচেয়ে গুরুতর হলো মাথার আঘাত। মঙ্গলবার বেলা দুইটার দিকে জিয়া ইসলামকে অ্যাম্বুলেন্সে করে অ্যাপোলো হাসপাতালে নেয়া হয়।

দুর্ঘটনার পর দিন কলাবাগান থানায় মামলা করেন প্রথম আলোর নিরাপত্তা ব্যবস্থাপক মেজর (অব.) সাজ্জাদুল কবীর। গত ১০ জানুয়ারি এই মামলায় কল্যাণ কোরাইয়াকে গ্রেফতার করে পুলিশ। কল্যাণ বিজ্ঞাপনের মডেল ও অভিনয় পেশার সঙ্গে যুক্ত।

jamunanews24.com/ sm/16 janu. 2017
যমুনা নিউজ: প্রথম আলোর প্রধান আলোকচিত্র সাংবাদিক জিয়া ইসলামকে গাড়ি দিয়ে ধাক্কা দেয়ার ঘটনায় করা মামলায় কল্যাণ কোরাইয়াকে জামিন দিয়েছেন আদালত।

আজ সোমবার ঢাকার অতিরিক্ত মুখ্য মহানগর কায়সারুল ইসলাম এ আদেশ দেন।

গত ৯ জানুয়ারি সোমবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে বসুন্ধরা শপিংমলের সামনের সড়কে একটি গাড়ি জিয়ার মোটরসাইকেলকে পেছন থেকে ধাক্কা দেয়।

দুর্ঘটনার পর জিয়া অচেতন অবস্থায় রাস্তায় পড়ে ছিলেন। ঘটনাস্থলে উপস্থিত কয়েকজন সাংবাদিক তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান। তাকে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) স্থানান্তর করা হয়।

চিকিৎসকেরা জানান, তার একটি পা ভেঙে গেছে। তবে সবচেয়ে গুরুতর হলো মাথার আঘাত। মঙ্গলবার বেলা দুইটার দিকে জিয়া ইসলামকে অ্যাম্বুলেন্সে করে অ্যাপোলো হাসপাতালে নেয়া হয়।

দুর্ঘটনার পর দিন কলাবাগান থানায় মামলা করেন প্রথম আলোর নিরাপত্তা ব্যবস্থাপক মেজর (অব.) সাজ্জাদুল কবীর। গত ১০ জানুয়ারি এই মামলায় কল্যাণ কোরাইয়াকে গ্রেফতার করে পুলিশ। কল্যাণ বিজ্ঞাপনের মডেল ও অভিনয় পেশার সঙ্গে যুক্ত।

jamunanews24.com/ sm/16 janu. 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 15:49:31 BDT Mon, 16 Jan 2017 15:49:31 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43153/-
নিষ্ক্রিয় বিএনপির থিংক ট্যাংক http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43152/-
মাঈন উদ্দিন আরিফ: দীর্ঘদিন ধরে উপেক্ষিত বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দলের বুদ্ধিজীবী মহল। দলের কর্ম কৌশল নির্ধারণে ভূমিকা রাখতে আগ্রহ হারিয়ে ফেলছেন। দলের হাইকমান্ডের সঙ্গে বেড়েছে তাদের দূরত্ব। তৃণমূলের নেতা কর্মীরা অভ্যন্তরীণ এই উদাসীনতায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।

দলীয় সূত্রমতে, বিএনপির থিংক ট্যাংক হিসেবে এতোদিন যাদের পরিচিতি ছিল সাম্প্রতিক সময়ে দলটির সঙ্গে কার্যত তাদের দূরত্ব বেড়েছে।

বিশিষ্ট রাষ্ট্রবিজ্ঞানী অধ্যাপক ড. এমাজউদ্দীন আহমদ, অধ্যাপক ড. মোস্তাহিদুর রহমান, ডা. জাফর উল্লাহ চৌধুরী, ফরহাদ মাজহার, শফিক রেহমান বিএনপির থিংক ট্যাংক হিসেবে পরিচিত থাকলেও নানা কারণে বেশ কিছুদিন যাবত তারা নীরব রয়েছেন।

বিএনপির বিভিন্ন কর্মসূচিতে আগের মতো তাদের দেখাও মিলছে না। আগে যারা দলের থিংক ট্যাংক হিসেবে পরিচিত ছিলেন বিএনপির ক্ষেত্রে এখন তাদের ভূমিকা কী জানতে চাইলে অধ্যাপক এমাজউদ্দীন আহমদ বলেন, বিএনপি-আওয়ামী লীগ ওইভাবে চিন্তা করার বয়স এখন আমার নেই। রাজনৈতিকভাবে যেটা সঠিক মনে করি সেটা বলবো। বিএনপির পক্ষে গেলেও বলব, বিপক্ষে গেলেও বলব।

সূত্রমতে, ২০ দলীয় জোটের অন্যতম শরীক জামায়াত ইস্যূতে অধ্যাপক ড. এমাজউদ্দীন আহমদের সঙ্গে বিএনপি চেয়ারপারসনের দূরত্ব তৈরি হওয়ার পর ড. মাহফুজ উল্লাহ, ড. মাহবুব উল্লাহ, সাবেক গভর্নর ড. সালেহ উদ্দিন আহমেদ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক প্রো-ভিসি অধ্যাপক সদরুল আমিন দলের থিংক ট্যাংক হিসেবে কাজ করছেন।

অপর একটি সূত্র জানায়, দলের সর্বশেষ কাউন্সিলে বিএনপির গবেষণা সেলের অনুমোদন রয়েছে। ওই সেলে পেশাদার লোকরা বিএনপির থিংক ট্যাংক হিসেবে অদৃশ্যভাবে কাজ করছেন। রামপাল ইস্যু, নির্বাচন কমিশন গঠন ও বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ চুরি ইস্যূতে বিএনপির থিংক ট্যাংক কাজ করেছে এবং দলের নেতারা তা তদারকি করছেন।

jamunanews24.com/M.Arif/Ali/16 January 2017
মাঈন উদ্দিন আরিফ: দীর্ঘদিন ধরে উপেক্ষিত বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দলের বুদ্ধিজীবী মহল। দলের কর্ম কৌশল নির্ধারণে ভূমিকা রাখতে আগ্রহ হারিয়ে ফেলছেন। দলের হাইকমান্ডের সঙ্গে বেড়েছে তাদের দূরত্ব। তৃণমূলের নেতা কর্মীরা অভ্যন্তরীণ এই উদাসীনতায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।
দলীয় সূত্রমতে, বিএনপির থিংক ট্যাংক হিসেবে এতোদিন যাদের পরিচিতি ছিল সাম্প্রতিক সময়ে দলটির সঙ্গে কার্যত তাদের দূরত্ব বেড়েছে।

বিশিষ্ট রাষ্ট্রবিজ্ঞানী অধ্যাপক ড. এমাজউদ্দীন আহমদ, অধ্যাপক ড. মোস্তাহিদুর রহমান, ডা. জাফর উল্লাহ চৌধুরী, ফরহাদ মাজহার, শফিক রেহমান বিএনপির থিংক ট্যাংক হিসেবে পরিচিত থাকলেও নানা কারণে বেশ কিছুদিন যাবত তারা নীরব রয়েছেন।

বিএনপির বিভিন্ন কর্মসূচিতে আগের মতো তাদের দেখাও মিলছে না। আগে যারা দলের থিংক ট্যাংক হিসেবে পরিচিত ছিলেন বিএনপির ক্ষেত্রে এখন তাদের ভূমিকা কী জানতে চাইলে অধ্যাপক এমাজউদ্দীন আহমদ বলেন, বিএনপি-আওয়ামী লীগ ওইভাবে চিন্তা করার বয়স এখন আমার নেই। রাজনৈতিকভাবে যেটা সঠিক মনে করি সেটা বলবো। বিএনপির পক্ষে গেলেও বলব, বিপক্ষে গেলেও বলব।

সূত্রমতে, ২০ দলীয় জোটের অন্যতম শরীক জামায়াত ইস্যূতে অধ্যাপক ড. এমাজউদ্দীন আহমদের সঙ্গে বিএনপি চেয়ারপারসনের দূরত্ব তৈরি হওয়ার পর ড. মাহফুজ উল্লাহ, ড. মাহবুব উল্লাহ, সাবেক গভর্নর ড. সালেহ উদ্দিন আহমেদ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক প্রো-ভিসি অধ্যাপক সদরুল আমিন দলের থিংক ট্যাংক হিসেবে কাজ করছেন।

অপর একটি সূত্র জানায়, দলের সর্বশেষ কাউন্সিলে বিএনপির গবেষণা সেলের অনুমোদন রয়েছে। ওই সেলে পেশাদার লোকরা বিএনপির থিংক ট্যাংক হিসেবে অদৃশ্যভাবে কাজ করছেন। রামপাল ইস্যু, নির্বাচন কমিশন গঠন ও বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ চুরি ইস্যূতে বিএনপির থিংক ট্যাংক কাজ করেছে এবং দলের নেতারা তা তদারকি করছেন।

jamunanews24.com/M.Arif/Ali/16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 15:43:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 15:43:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43152/-
রুমায় বিস্ফোরণে জুমচাষি আহত http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43151/- যমুনা নিউজ: বান্দরবানের রুমা উপজেলার সীমান্ত এলাকায় মাইন বিস্ফোরণে ভানরাম বম (৩০) নামে এক জুম চাষি আহত হয়েছেন।
 
রোববার দিবাগত গভীর রাতে উপজেলার ৭১, ৭২ নম্বর সীমান্ত পিলার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

আহত ভানরাম বম রুমার চয়খেয়াং পাড়ার বাসিন্দা  দাওসিয়াম বমের ছেলে।

পুলিশ জানায়, বিস্ফোরণের খবর পেয়ে স্থানীয়রা ভানরামকে উদ্ধার করে রাতে রুমা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এ ভর্তি করেন। সেখানে তার শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে সোমবার দুপুরে তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

এ ব্যাপারে রুমা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শরিফুল ইসলাম বলেন, স্থানীয়দের দাবি ওই এলাকায় মাইন বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। তবে মাইন বিস্ফোরণ কিনা তা এখনও নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017
যমুনা নিউজ: বান্দরবানের রুমা উপজেলার সীমান্ত এলাকায় মাইন বিস্ফোরণে ভানরাম বম (৩০) নামে এক জুম চাষি আহত হয়েছেন।
 
রোববার দিবাগত গভীর রাতে উপজেলার ৭১, ৭২ নম্বর সীমান্ত পিলার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

আহত ভানরাম বম রুমার চয়খেয়াং পাড়ার বাসিন্দা  দাওসিয়াম বমের ছেলে।

পুলিশ জানায়, বিস্ফোরণের খবর পেয়ে স্থানীয়রা ভানরামকে উদ্ধার করে রাতে রুমা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এ ভর্তি করেন। সেখানে তার শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে সোমবার দুপুরে তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

এ ব্যাপারে রুমা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শরিফুল ইসলাম বলেন, স্থানীয়দের দাবি ওই এলাকায় মাইন বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। তবে মাইন বিস্ফোরণ কিনা তা এখনও নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 15:33:08 BDT Mon, 16 Jan 2017 15:33:08 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43151/-
সুইজারল্যান্ড পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43150/- যমুনা নিউজ : ওয়ার্ল্ড ইকনোমিক ফোরামের (ডব্লিউইএফ) ৪৭তম বার্ষিক সম্মেলনে যোগ দিতে পাঁচদিনের সরকারি সফরে সুইজারল্যান্ড পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

প্রধানমন্ত্রী এবং তার সফরসঙ্গীদের বহনকারী ইতিহাদ এয়ার ওয়েজের ফ্লাইট স্থানীয় সময় সকাল ৬টা ৬ মিনিটে জুরিখ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করে।

সুইজারল্যান্ডে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত এবং জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি শামীম আহ্সান বিমানবন্দরে প্রধানমন্ত্রীকে অভ্যর্থনা জানান।

বিমানবন্দর থেকে প্রধানমন্ত্রীকে আনুষ্ঠানিক মোটর শোভাযাত্রা সহকারে সিলভ্রেটা পার্ক হোটেলে নিয়ে যাওয়া হবে। সুইজারল্যান্ড সফরকালে তিনি এই হোটেলেই অবস্থান করবেন।

ডাভোস যাওয়ার পথে শেখ হাসিনা সংযুক্ত আরব আমিরাতের আবুধাবি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে প্রায় এক ঘণ্টা ২০ মিনিট যাত্রা বিরতি করেন।

ডব্লিউইএফের নির্বাহী চেয়ারম্যান প্রফেসর ক্লাউস সোয়াবের আমন্ত্রণে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রথম বাংলাদেশি নির্বাচিত নেতা হিসেবে এই ফোরামে যোগ দিতে ইতিহাদ এয়ার ওয়েজের একটি ফ্লাইটে রোববার রাত ৯টা ৪৫ মিনিটে হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর ত্যাগ করেন।

সুইজারল্যান্ডের পূর্বাঞ্চলীয় আল্পস অঞ্চলে গ্রাউবান্ডেনে পার্বত্য রিসোর্ট ডাভোসে আগামী ১৭ জানুয়ারি থেকে চার দিনব্যাপী এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে। এবারের সম্মেলনের প্রতিপাদ্য বিষয় হচ্ছে ‘প্রতিবেদনশীল এবং দায়িত্বশীল নেতৃত্ব’।

প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম জানান, ডাভোসে অবস্থানকালে প্রধানমন্ত্রী ওয়ার্ল্ড ইকনোমিক ফোরামের বিভিন্ন কর্মসূচিতে যোগ দেবেন এবং ডব্লিউইএফ’র নির্বাহী চেয়ারম্যান ক্লাউস সোয়াবের সঙ্গে বৈঠক করবেন।

শেখ হাসিনা ১৭ জানুয়ারি ডাভোসের কংগ্রেস সেন্টারে ওয়ার্ল্ড ইকনোমিক ফোরামের উদ্বোধনী অধিবেশনে যোগ দেবেন। এর আগে তিনি ডব্লিউইএফ’র নিবার্হী চেয়ারম্যান ক্লাউস সোয়াবের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন।

একই দিন একই ভেন্যুতে অনুষ্ঠিত ‘শ্যাপিং এ নিউ ওয়াটার ইকনোমি’ শীর্ষক এক কর্মশালায়ও প্রধানমন্ত্রী যোগ দেবেন।

Jamunanews24.com/sm/ 16 janu. 2017
যমুনা নিউজ : ওয়ার্ল্ড ইকনোমিক ফোরামের (ডব্লিউইএফ) ৪৭তম বার্ষিক সম্মেলনে যোগ দিতে পাঁচদিনের সরকারি সফরে সুইজারল্যান্ড পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

প্রধানমন্ত্রী এবং তার সফরসঙ্গীদের বহনকারী ইতিহাদ এয়ার ওয়েজের ফ্লাইট স্থানীয় সময় সকাল ৬টা ৬ মিনিটে জুরিখ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করে।

সুইজারল্যান্ডে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত এবং জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি শামীম আহ্সান বিমানবন্দরে প্রধানমন্ত্রীকে অভ্যর্থনা জানান।

বিমানবন্দর থেকে প্রধানমন্ত্রীকে আনুষ্ঠানিক মোটর শোভাযাত্রা সহকারে সিলভ্রেটা পার্ক হোটেলে নিয়ে যাওয়া হবে। সুইজারল্যান্ড সফরকালে তিনি এই হোটেলেই অবস্থান করবেন।

ডাভোস যাওয়ার পথে শেখ হাসিনা সংযুক্ত আরব আমিরাতের আবুধাবি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে প্রায় এক ঘণ্টা ২০ মিনিট যাত্রা বিরতি করেন।

ডব্লিউইএফের নির্বাহী চেয়ারম্যান প্রফেসর ক্লাউস সোয়াবের আমন্ত্রণে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রথম বাংলাদেশি নির্বাচিত নেতা হিসেবে এই ফোরামে যোগ দিতে ইতিহাদ এয়ার ওয়েজের একটি ফ্লাইটে রোববার রাত ৯টা ৪৫ মিনিটে হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর ত্যাগ করেন।

সুইজারল্যান্ডের পূর্বাঞ্চলীয় আল্পস অঞ্চলে গ্রাউবান্ডেনে পার্বত্য রিসোর্ট ডাভোসে আগামী ১৭ জানুয়ারি থেকে চার দিনব্যাপী এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে। এবারের সম্মেলনের প্রতিপাদ্য বিষয় হচ্ছে ‘প্রতিবেদনশীল এবং দায়িত্বশীল নেতৃত্ব’।

প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম জানান, ডাভোসে অবস্থানকালে প্রধানমন্ত্রী ওয়ার্ল্ড ইকনোমিক ফোরামের বিভিন্ন কর্মসূচিতে যোগ দেবেন এবং ডব্লিউইএফ’র নির্বাহী চেয়ারম্যান ক্লাউস সোয়াবের সঙ্গে বৈঠক করবেন।

শেখ হাসিনা ১৭ জানুয়ারি ডাভোসের কংগ্রেস সেন্টারে ওয়ার্ল্ড ইকনোমিক ফোরামের উদ্বোধনী অধিবেশনে যোগ দেবেন। এর আগে তিনি ডব্লিউইএফ’র নিবার্হী চেয়ারম্যান ক্লাউস সোয়াবের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন।

একই দিন একই ভেন্যুতে অনুষ্ঠিত ‘শ্যাপিং এ নিউ ওয়াটার ইকনোমি’ শীর্ষক এক কর্মশালায়ও প্রধানমন্ত্রী যোগ দেবেন।

Jamunanews24.com/sm/ 16 janu. 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 15:29:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 15:29:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43150/-
সংলাপের পথ রুদ্ধ করে দিয়েছেন আগুনসন্ত্রাসের নেত্রী http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43149/-
যমুনা নিউজ: আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ঘরের দরজা বন্ধ করে সংলাপের দরজাও বন্ধ করে দিয়েছেন আগুন সন্ত্রাসের নেত্রী।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়াকে সংলাপের জন্য ফোনে দাওয়াত দিয়েছিলেন কিন্তু ওই নেত্রী অশোভন ও অশ্রাব্য ভাষায় তা প্রত্যাখ্যান করেন। আবার তার সঙ্গে সংলাপে বসব?

আওয়ামী লীগ ১৫ আগস্ট, ৪ নভেম্বর, ২১ আগস্টের কথা ভুলে যায়নি। ভুলে যায়নি ৫ জানুয়ারির আগে ও পরের অগ্নিসন্ত্রাস, স্কুলে অগ্নিসংযোগ, মানুষ হত্যার অপরাজনীতির কথা। এর পরও কি আমরা তাদের সঙ্গে সংলাপে বসতে পারি?

আজ সোমবার বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি জাতীয় চিত্রশালা ভবনে আয়োজিত বিএনপি-জামায়াতের বর্বরোচিত তাণ্ডব ও অগ্নিসন্ত্রাসের খণ্ড চিত্র প্রদর্শনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, সব রাজনৈতিক সমস্যার সমাধান দেশের সংবিধান। সংবিধানে যা আছে তার বাহিরে কোনো কাজ হবে না। নেত্রীকে সংলাপে বসার জন্য যারা প্রস্তাব তুলছে তাদের সমালোচনা করে তিনি বলেন, আপনারা কী চান আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা ও ২১ হাজার সাধারণ মানুষের রক্তের ওপর দাঁড়িয়ে সংলাপ হোক?

মন্ত্রী বলেন, বিএনপি নেত্রীর ছেলের মৃত্যুর খবর শুনে প্রধানমন্ত্রী একজন মাকে সান্ত্বনা দিয়ে গিয়েছিলেন কিন্তু তাকে প্রবেশ করতে দেয়া হয়নি। তার দরজা বন্ধ করে দেওয়া হয়েছিল। প্রধানমন্ত্রী সেখানে কোনো রাজনীতি করতে যাননি। তিনি স্বজন হারানোর ব্যাথা বোঝেন, সেই উপলব্ধি থেকেই তিনি সান্ত্বনা দিতে গিয়েছিলেন।

মন্ত্রী জানান, নির্বাচন সঠিক সময়েই সংবিধানের আলোকে অনুষ্ঠিত হবে। আমরা রাষ্ট্রপতির কাছে প্রস্তাব দিয়েছি নির্বাচনকালীন সরকার হবে ব্রেক থ্রু যা নজিরবিহীন। ইতোমধ্যেই বিএনপিও রাষ্ট্রপতির সঙ্গে দেখা করে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন।

উগ্রজঙ্গিবাদ সম্পর্কে ওবায়দুল কাদের বলেন, এই সব সন্ত্রাসীর বিষবৃক্ষের শাখা প্রশাখা ছড়িয়ে পড়েছে। তাদের রাতারাতি উপড়ে ফেলা যাবে না, আর খণ্ড খণ্ড প্রতিবাদ করে লাভ নেই। এই বিষবৃক্ষকে উপড়ে ফেলতে বাংলাদেশের মানুষের একমাত্র আস্থার জায়গা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। আজ যারা গণতন্ত্রের কথা বলছেন তারাই গণতন্ত্রের হত্যাকারী। তার প্রমাণ দেশবাসী দেখেছে। আওয়ামী লীগ ষড়যন্ত্রের রাজনীতি করে না কিন্তু বরাবরই ষড়যন্ত্রের শিকার হয়।

১৫ আগস্ট সম্পর্কে আরও জানান, আত্মস্বীকৃত হত্যাকারীদের তারা পুরস্কৃত করেছিল, তারা বলেছিল এর নেপথ্যে কারা কারা ছিল। হত্যাকারী ও প্রশয়দাতারা একই অপরাধে সমান অপরাধী। তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ আজ একটি সুশৃঙ্খল দলে পরিণত হচ্ছে। দল এখন বাস্তবমুখী। দলের নেতাকর্মীরা কথার চেয়ে বেশি কাজ করতে চান।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ও সংসদ সদস্য ড. হাছান মাহমুদ। এতে অন্যদের মধ্যে আরও বক্তব্য দেন বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি মঞ্জুরুল হাসান বুলবুল ও ইঞ্জিনিয়ার নাজমুল হোসেন কলিমুল্লাহ প্রমুখ।

jamunanews24.com/nova/rasib/anis/16 january 2017


যমুনা নিউজ: আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ঘরের দরজা বন্ধ করে সংলাপের দরজাও বন্ধ করে দিয়েছেন আগুন সন্ত্রাসের নেত্রী।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়াকে সংলাপের জন্য ফোনে দাওয়াত দিয়েছিলেন কিন্তু ওই নেত্রী অশোভন ও অশ্রাব্য ভাষায় তা প্রত্যাখ্যান করেন। আবার তার সঙ্গে সংলাপে বসব?

আওয়ামী লীগ ১৫ আগস্ট, ৪ নভেম্বর, ২১ আগস্টের কথা ভুলে যায়নি। ভুলে যায়নি ৫ জানুয়ারির আগে ও পরের অগ্নিসন্ত্রাস, স্কুলে অগ্নিসংযোগ, মানুষ হত্যার অপরাজনীতির কথা। এর পরও কি আমরা তাদের সঙ্গে সংলাপে বসতে পারি?

আজ সোমবার বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি জাতীয় চিত্রশালা ভবনে আয়োজিত বিএনপি-জামায়াতের বর্বরোচিত তাণ্ডব ও অগ্নিসন্ত্রাসের খণ্ড চিত্র প্রদর্শনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, সব রাজনৈতিক সমস্যার সমাধান দেশের সংবিধান। সংবিধানে যা আছে তার বাহিরে কোনো কাজ হবে না। নেত্রীকে সংলাপে বসার জন্য যারা প্রস্তাব তুলছে তাদের সমালোচনা করে তিনি বলেন, আপনারা কী চান আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা ও ২১ হাজার সাধারণ মানুষের রক্তের ওপর দাঁড়িয়ে সংলাপ হোক?

মন্ত্রী বলেন, বিএনপি নেত্রীর ছেলের মৃত্যুর খবর শুনে প্রধানমন্ত্রী একজন মাকে সান্ত্বনা দিয়ে গিয়েছিলেন কিন্তু তাকে প্রবেশ করতে দেয়া হয়নি। তার দরজা বন্ধ করে দেওয়া হয়েছিল। প্রধানমন্ত্রী সেখানে কোনো রাজনীতি করতে যাননি। তিনি স্বজন হারানোর ব্যাথা বোঝেন, সেই উপলব্ধি থেকেই তিনি সান্ত্বনা দিতে গিয়েছিলেন।

মন্ত্রী জানান, নির্বাচন সঠিক সময়েই সংবিধানের আলোকে অনুষ্ঠিত হবে। আমরা রাষ্ট্রপতির কাছে প্রস্তাব দিয়েছি নির্বাচনকালীন সরকার হবে ব্রেক থ্রু যা নজিরবিহীন। ইতোমধ্যেই বিএনপিও রাষ্ট্রপতির সঙ্গে দেখা করে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন।

উগ্রজঙ্গিবাদ সম্পর্কে ওবায়দুল কাদের বলেন, এই সব সন্ত্রাসীর বিষবৃক্ষের শাখা প্রশাখা ছড়িয়ে পড়েছে। তাদের রাতারাতি উপড়ে ফেলা যাবে না, আর খণ্ড খণ্ড প্রতিবাদ করে লাভ নেই। এই বিষবৃক্ষকে উপড়ে ফেলতে বাংলাদেশের মানুষের একমাত্র আস্থার জায়গা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। আজ যারা গণতন্ত্রের কথা বলছেন তারাই গণতন্ত্রের হত্যাকারী। তার প্রমাণ দেশবাসী দেখেছে। আওয়ামী লীগ ষড়যন্ত্রের রাজনীতি করে না কিন্তু বরাবরই ষড়যন্ত্রের শিকার হয়।

১৫ আগস্ট সম্পর্কে আরও জানান, আত্মস্বীকৃত হত্যাকারীদের তারা পুরস্কৃত করেছিল, তারা বলেছিল এর নেপথ্যে কারা কারা ছিল। হত্যাকারী ও প্রশয়দাতারা একই অপরাধে সমান অপরাধী। তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ আজ একটি সুশৃঙ্খল দলে পরিণত হচ্ছে। দল এখন বাস্তবমুখী। দলের নেতাকর্মীরা কথার চেয়ে বেশি কাজ করতে চান।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ও সংসদ সদস্য ড. হাছান মাহমুদ। এতে অন্যদের মধ্যে আরও বক্তব্য দেন বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি মঞ্জুরুল হাসান বুলবুল ও ইঞ্জিনিয়ার নাজমুল হোসেন কলিমুল্লাহ প্রমুখ।

jamunanews24.com/nova/rasib/anis/16 january 2017


]]>
Mon, 16 Jan 2017 15:16:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 15:16:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43149/-
বরিশালে সড়ক দুর্ঘটনায় ২ নারী নিহত http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43148/- যমুনা নিউজ: বরিশালের বাবুগঞ্জ উপজেলায় সড়ক দুর্ঘটনায় দুই নারী নিহত হয়েছেন। এতে আহত হয়েছেন আরও পাঁচজন।

সোমবার দুপুর ১টার দিকে উপজেলার বকুলতলা এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- কেদারপুর ইউনিয়নের কাঞ্চন মালা (৭০) ও শাহানাজ বেগম (৪৫)।

পুলিশ জানায়, দুপুরে বকুলতলা এলাকায় একটি ট্রাক বিপরীত দিক থেকে আসা যাত্রীবাহী একটি থ্রি-হুইলারকে (মাহিন্দ্রা) চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই থ্রি-হুইলারের যাত্রী কাঞ্চন মালা ও শাহানাজ বেগম মারা যান।

বিমানবন্দর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ার হোসেন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017
যমুনা নিউজ: বরিশালের বাবুগঞ্জ উপজেলায় সড়ক দুর্ঘটনায় দুই নারী নিহত হয়েছেন। এতে আহত হয়েছেন আরও পাঁচজন।

সোমবার দুপুর ১টার দিকে উপজেলার বকুলতলা এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- কেদারপুর ইউনিয়নের কাঞ্চন মালা (৭০) ও শাহানাজ বেগম (৪৫)।

পুলিশ জানায়, দুপুরে বকুলতলা এলাকায় একটি ট্রাক বিপরীত দিক থেকে আসা যাত্রীবাহী একটি থ্রি-হুইলারকে (মাহিন্দ্রা) চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই থ্রি-হুইলারের যাত্রী কাঞ্চন মালা ও শাহানাজ বেগম মারা যান।

বিমানবন্দর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ার হোসেন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 15:14:56 BDT Mon, 16 Jan 2017 15:14:56 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43148/-
চবির ২০১৪’র পরীক্ষা ২০১৭-তে ! http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43147/- যমুনা নিউজ: চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে দুই বছরের বেশি সময় ধরে সেশনজটে ভুগছেন ২০১০-১১ সেশনের শিক্ষার্থীরা। ইংরেজি বিভাগের শিক্ষার্থীদের স্নাতক সম্মান শেষ হওয়ার কথা ছিল ২০১৪ সালে। অথচ দুই বছর পার হয়ে ২০১৭ সাল আসলেও এখনও পরীক্ষার আসনে বসতে পারেননি শিক্ষার্থীরা।

তবে কর্তৃপক্ষ ঘোষণা করেছে চলতি বছর ৩১ জানুয়ারি স্নাতক ফাইনাল পরীক্ষার তারিখ অনুষ্ঠিত হবে। তবে, এ পরীক্ষা শেষ হতে সময় লাগবে মার্চ মাস।

ইংরেজি বিভাগ ছাড়াও বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাকাউন্টিং অ্যান্ড ইনফরমেশন সিস্টেম ও কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের অবস্থাও একই রকম। তবে এর মধ্যে অ্যাকাউন্টিং বিভাগের ২০১০-১১ সেশনের শিক্ষার্থীরা কিছুটা হলেও ইংরেজি ও কম্পিউটার সায়েন্স বিভাগ থেকে এগিয়ে। তারা চলতি মাসের ৯ তারিখ স্নাতক ফাইনাল পরীক্ষা শেষ করতে পেরেছেন।

ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীদের অভিযোগ, চার বছরের স্নাতক সম্মান ও এক বছরের স্নাতকোত্তর ডিগ্রি নিতে সময় লাগছে আট বছর। এতে করে আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হওয়ার পাশাপাশি কর্মক্ষেত্রে প্রবেশে পিছিয়ে পড়ছেন শিক্ষার্থীরা। অথচ পৃথিবীর অন্য দেশে একাডেমিক সেশন শুরুর সময়, পরীক্ষা, ফলাফল, ছুটি সব পূর্বনির্ধারিত। এমনকি দেশের অন্য পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে সেশনজট কমে এলেও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে না কমায় তাদের মধ্যে ক্ষোভ ও হতাশা ছড়িয়ে পড়েছে।

এ বিষয়ে ইংরেজি বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক ড. কামাল উদ্দিন আহমেদ জানান, ‘বিভাগের সেশনজট কমাতে আমি অনেক চেষ্টা করছি। আমার একার পক্ষে সেটি কমানো সম্ভব নয়। বিভাগের অন্য শিক্ষকদেরও শিক্ষার্থীদের প্রতি দায়িত্ববান হতে হবে। ঠিকমত খাতা মূল্যায়ন করে সঠিক সময়ে জমা দিতে হবে।’

বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) অধ্যাপক ড.কামরুল হুদা বলেন, ‘যেসব বিভাগে সেশনজট আছে সেসব বিভাগের সভাপতির সঙ্গে এই বিষয়ে বৈঠক হয়েছে। যে বিভাগে সমস্যা পেয়েছি সেখানে কথা বলে সমাধান করা হয়েছে। জানুয়ারি থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত একাডেমিক ক্যালেন্ডার ঘোষণা করা হয়েছে। শুধু সেশনজট কমাতে আমাদের এই ব্যবস্থা।’


jamunanews24.com/rasib/16 january 2017
যমুনা নিউজ: চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে দুই বছরের বেশি সময় ধরে সেশনজটে ভুগছেন ২০১০-১১ সেশনের শিক্ষার্থীরা। ইংরেজি বিভাগের শিক্ষার্থীদের স্নাতক সম্মান শেষ হওয়ার কথা ছিল ২০১৪ সালে। অথচ দুই বছর পার হয়ে ২০১৭ সাল আসলেও এখনও পরীক্ষার আসনে বসতে পারেননি শিক্ষার্থীরা।

তবে কর্তৃপক্ষ ঘোষণা করেছে চলতি বছর ৩১ জানুয়ারি স্নাতক ফাইনাল পরীক্ষার তারিখ অনুষ্ঠিত হবে। তবে, এ পরীক্ষা শেষ হতে সময় লাগবে মার্চ মাস।

ইংরেজি বিভাগ ছাড়াও বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাকাউন্টিং অ্যান্ড ইনফরমেশন সিস্টেম ও কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের অবস্থাও একই রকম। তবে এর মধ্যে অ্যাকাউন্টিং বিভাগের ২০১০-১১ সেশনের শিক্ষার্থীরা কিছুটা হলেও ইংরেজি ও কম্পিউটার সায়েন্স বিভাগ থেকে এগিয়ে। তারা চলতি মাসের ৯ তারিখ স্নাতক ফাইনাল পরীক্ষা শেষ করতে পেরেছেন।

ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীদের অভিযোগ, চার বছরের স্নাতক সম্মান ও এক বছরের স্নাতকোত্তর ডিগ্রি নিতে সময় লাগছে আট বছর। এতে করে আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হওয়ার পাশাপাশি কর্মক্ষেত্রে প্রবেশে পিছিয়ে পড়ছেন শিক্ষার্থীরা। অথচ পৃথিবীর অন্য দেশে একাডেমিক সেশন শুরুর সময়, পরীক্ষা, ফলাফল, ছুটি সব পূর্বনির্ধারিত। এমনকি দেশের অন্য পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে সেশনজট কমে এলেও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে না কমায় তাদের মধ্যে ক্ষোভ ও হতাশা ছড়িয়ে পড়েছে।

এ বিষয়ে ইংরেজি বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক ড. কামাল উদ্দিন আহমেদ জানান, ‘বিভাগের সেশনজট কমাতে আমি অনেক চেষ্টা করছি। আমার একার পক্ষে সেটি কমানো সম্ভব নয়। বিভাগের অন্য শিক্ষকদেরও শিক্ষার্থীদের প্রতি দায়িত্ববান হতে হবে। ঠিকমত খাতা মূল্যায়ন করে সঠিক সময়ে জমা দিতে হবে।’

বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) অধ্যাপক ড.কামরুল হুদা বলেন, ‘যেসব বিভাগে সেশনজট আছে সেসব বিভাগের সভাপতির সঙ্গে এই বিষয়ে বৈঠক হয়েছে। যে বিভাগে সমস্যা পেয়েছি সেখানে কথা বলে সমাধান করা হয়েছে। জানুয়ারি থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত একাডেমিক ক্যালেন্ডার ঘোষণা করা হয়েছে। শুধু সেশনজট কমাতে আমাদের এই ব্যবস্থা।’


jamunanews24.com/rasib/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 15:09:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 15:09:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43147/-
গাজীপুরে গাড়িচাপায় যুবক নিহত http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43146/- যমুনা নিউজ: গাজীপুরে গাড়িচাপায় বাইতুল্লাহ (২৩) নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন।

সোমবার সকাল ৮টার দিকে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের সাইবোর্ড এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত বাইতুল্লাহ রংপুর জেলার পীরগঞ্জ উপজেলার  সিদ্ধেরচর এলাকার আবু বক্কর মিয়ার ছেলে।

পুলিশ জানায়, সাইনবোর্ড এলাকায় রাস্তা পার হওয়ার সময় একটি গাড়ি তাকে চাপা দেয়। এতে তিনি গুরুতর আহত হন। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে গাজীপুর শহিদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।
 
নাওজোর হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (এসআই) মো. আব্দুস ছালাম জানান, দুপুরে মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017
যমুনা নিউজ: গাজীপুরে গাড়িচাপায় বাইতুল্লাহ (২৩) নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন।

সোমবার সকাল ৮টার দিকে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের সাইবোর্ড এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত বাইতুল্লাহ রংপুর জেলার পীরগঞ্জ উপজেলার  সিদ্ধেরচর এলাকার আবু বক্কর মিয়ার ছেলে।

পুলিশ জানায়, সাইনবোর্ড এলাকায় রাস্তা পার হওয়ার সময় একটি গাড়ি তাকে চাপা দেয়। এতে তিনি গুরুতর আহত হন। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে গাজীপুর শহিদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।
 
নাওজোর হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (এসআই) মো. আব্দুস ছালাম জানান, দুপুরে মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 15:02:29 BDT Mon, 16 Jan 2017 15:02:29 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43146/-
সংবাদ প্রকাশের জেরে সংবাদকর্মীকে পিটিয়ে আহত http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43145/- যমুনা নিউজ: ভোলায় রোববার রাতে দৈনিক আমাদের সময় ও দৈনিক আনন্দবাজার পত্রিকার চরফ্যাশন উপজেলা প্রতিনিধি আদিত্য জাহিদকে পিটিয়ে আহত করার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

জানা গেছে, সংবাদ প্রকাশের জেরে মো. হারুন, ইউপি সদস্য খোকন ও সদস্য মন্নান, অহিদ গাজী, আবুল কাশেম ও উত্তম তাকে মারধর করে।

চরফ্যাশনের দক্ষিণ আইচা থানার পূর্ব চর আইচার সংরক্ষিত বন থেকে শনিবার ভোর রাতে সরকারি গাছ চুরি করে শাহে আলমের স’ মিলে বনপ্রহরী কবির, লতিফকে মারধর ও অবরুদ্ধ করার সংবাদ প্রকাশের জন্য এই ঘটনা ঘটেছে বলে অভিযোগ করা হয়।

স্থানীয়রা আহত সাংবাদিককে রক্তাত অবস্থায় উদ্ধার করে চরফ্যাশন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।

আদিত্য জানান, স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে। তার মাথায় ৬টি সেলাই করতে হয়েছে। পুলিশকে বিষয়টি জানিয়েছেন।

এ ব্যাপারে চরফ্যাশন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. এনামুল হক জানান, বিষয়টি তিনি জানতে পেরেছেন।

jamunanews24.com/sa/anis/manik/ 16 Jan 2017
যমুনা নিউজ: ভোলায় রোববার রাতে দৈনিক আমাদের সময় ও দৈনিক আনন্দবাজার পত্রিকার চরফ্যাশন উপজেলা প্রতিনিধি আদিত্য জাহিদকে পিটিয়ে আহত করার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

জানা গেছে, সংবাদ প্রকাশের জেরে মো. হারুন, ইউপি সদস্য খোকন ও সদস্য মন্নান, অহিদ গাজী, আবুল কাশেম ও উত্তম তাকে মারধর করে।

চরফ্যাশনের দক্ষিণ আইচা থানার পূর্ব চর আইচার সংরক্ষিত বন থেকে শনিবার ভোর রাতে সরকারি গাছ চুরি করে শাহে আলমের স’ মিলে বনপ্রহরী কবির, লতিফকে মারধর ও অবরুদ্ধ করার সংবাদ প্রকাশের জন্য এই ঘটনা ঘটেছে বলে অভিযোগ করা হয়।

স্থানীয়রা আহত সাংবাদিককে রক্তাত অবস্থায় উদ্ধার করে চরফ্যাশন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।

আদিত্য জানান, স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে। তার মাথায় ৬টি সেলাই করতে হয়েছে। পুলিশকে বিষয়টি জানিয়েছেন।

এ ব্যাপারে চরফ্যাশন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. এনামুল হক জানান, বিষয়টি তিনি জানতে পেরেছেন।

jamunanews24.com/sa/anis/manik/ 16 Jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 15:00:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 15:00:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43145/-
এসপি-বিজেপি আঁতাত রয়েছে: মায়াবতী http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43144/- যমুনা নিউজ: ভারতের উত্তর প্রদেশের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী ও বহুজন সমাজ পার্টির (বিএসপি) প্রধান মায়াবতী বলেছেন, উত্তর প্রদেশে সমাজবাদী পার্টি বা এসপি এবং বিজেপির মধ্যে গোপন আঁতাত রয়েছে। অখিলেশ সরকারের আমলেই মুজাফফরনগর দাঙ্গা এবং দাদরির ঘটনা ঘটেছে।

রোববার লাখনৌতে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এমন মন্তব্য করেন। দিনটি ছিল তার ৬১তম জন্মদিন।

উত্তর প্রদেশে বর্তমানে সমাজবাদী পার্টি ক্ষমতায় রয়েছে। পিতা মুলায়ম সিং যাদবকে হটিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর আসনে রয়েছেন অখিলেশ যাদব।

মায়াবতী বলেন, ‘বিজেপি শাসিত রাজ্যের পরিস্থিতি খুব খারাপ। বিজেপির নীতিতে দলিতদের কোনো কল্যাণ হবে না। বিজেপি সরকার নিজেদের ব্যর্থতাকে চাপা দেয়ার জন্য নোট বাতিলের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। কালো টাকা এবং দুর্নীতি দূর করার নামে সরকার নোট বাতিল করেছে কিন্তু এর ফলে গরীব, কৃষক এবং শ্রমিকসহ সকলেই ব্যাপক দুর্ভোগে পড়েছেন।

jamunanews24.com/kabir/RP/manik/16 Jan 2017
যমুনা নিউজ: ভারতের উত্তর প্রদেশের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী ও বহুজন সমাজ পার্টির (বিএসপি) প্রধান মায়াবতী বলেছেন, উত্তর প্রদেশে সমাজবাদী পার্টি বা এসপি এবং বিজেপির মধ্যে গোপন আঁতাত রয়েছে। অখিলেশ সরকারের আমলেই মুজাফফরনগর দাঙ্গা এবং দাদরির ঘটনা ঘটেছে।

রোববার লাখনৌতে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এমন মন্তব্য করেন। দিনটি ছিল তার ৬১তম জন্মদিন।

উত্তর প্রদেশে বর্তমানে সমাজবাদী পার্টি ক্ষমতায় রয়েছে। পিতা মুলায়ম সিং যাদবকে হটিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর আসনে রয়েছেন অখিলেশ যাদব।

মায়াবতী বলেন, ‘বিজেপি শাসিত রাজ্যের পরিস্থিতি খুব খারাপ। বিজেপির নীতিতে দলিতদের কোনো কল্যাণ হবে না। বিজেপি সরকার নিজেদের ব্যর্থতাকে চাপা দেয়ার জন্য নোট বাতিলের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। কালো টাকা এবং দুর্নীতি দূর করার নামে সরকার নোট বাতিল করেছে কিন্তু এর ফলে গরীব, কৃষক এবং শ্রমিকসহ সকলেই ব্যাপক দুর্ভোগে পড়েছেন।

jamunanews24.com/kabir/RP/manik/16 Jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:52:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:52:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43144/-
যুবতীর তিনটি পা! http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43143/- যমুনা নিউজ: কত কিছুই তো ভাইরাল হয় ইন্টারনেটে। সব কিছু আমার আপনার নজর কাড়ে না। তবে গত বছর ইন্টারনেটে ভাইরাল হয়ে যাওয়া বহু ছবি বেশ কিছু মানুষের ভাগ্য বদলে দিয়েছিল।

যেমন- ধরুন পাকিস্তানের সেই নীল চোখের চা বিক্রেতা। বা নেপালের সেই সুন্দরী সবজি বিক্রেতা। নতুন বছরেও এমন ছবি ভাইরাল হলো ইন্টারনেটে। নতুন বছরে প্রথম ইন্টারনেটে ঝড় তোলা ছবিটি একটি সুন্দরী মেয়ের। তবে তার সৌন্দর্য রাতারাতি তাকে নেটদুনিয়ায় বিখ্যাত করে তোলেনি। বরং তার ভাইরাল হয়ে যাওয়া ছবিটি দেখে প্রশ্ন জাগছে তার কটি পা? আপাতদৃষ্টিতে ছবিটি দেখে মনে হচ্ছে যুবতীর পায়ের সংখ্যা তিনটি!

আর এই তিন পা ওয়ালা যুবতীকে দেখেই অবাক নেটদুনিয়া। এমন আশ্চার্য ছবির দিকে প্রায় মিনিট খানেক তাকিয়ে থাকলে বোঝা যায়, আসলে যুবতীর আমার-আপনার মতো ঠিক দুটো পা রয়েছে। ছবি তোলার সময় তিনি কেবল মাটির ফুলদানি সঙ্গে নিয়েছেন। যাকে দেখে হুবহু তৃতীয় পায়ের মতো মনে হচ্ছে।

jamunanews24.com/zobaida/RP/16 January 2017
যমুনা নিউজ: কত কিছুই তো ভাইরাল হয় ইন্টারনেটে। সব কিছু আমার আপনার নজর কাড়ে না। তবে গত বছর ইন্টারনেটে ভাইরাল হয়ে যাওয়া বহু ছবি বেশ কিছু মানুষের ভাগ্য বদলে দিয়েছিল।

যেমন- ধরুন পাকিস্তানের সেই নীল চোখের চা বিক্রেতা। বা নেপালের সেই সুন্দরী সবজি বিক্রেতা। নতুন বছরেও এমন ছবি ভাইরাল হলো ইন্টারনেটে। নতুন বছরে প্রথম ইন্টারনেটে ঝড় তোলা ছবিটি একটি সুন্দরী মেয়ের। তবে তার সৌন্দর্য রাতারাতি তাকে নেটদুনিয়ায় বিখ্যাত করে তোলেনি। বরং তার ভাইরাল হয়ে যাওয়া ছবিটি দেখে প্রশ্ন জাগছে তার কটি পা? আপাতদৃষ্টিতে ছবিটি দেখে মনে হচ্ছে যুবতীর পায়ের সংখ্যা তিনটি!

আর এই তিন পা ওয়ালা যুবতীকে দেখেই অবাক নেটদুনিয়া। এমন আশ্চার্য ছবির দিকে প্রায় মিনিট খানেক তাকিয়ে থাকলে বোঝা যায়, আসলে যুবতীর আমার-আপনার মতো ঠিক দুটো পা রয়েছে। ছবি তোলার সময় তিনি কেবল মাটির ফুলদানি সঙ্গে নিয়েছেন। যাকে দেখে হুবহু তৃতীয় পায়ের মতো মনে হচ্ছে।

jamunanews24.com/zobaida/RP/16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:51:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:51:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43143/-
শিক্ষামন্ত্রীর সঙ্গে লন্ডনের ক্যামডেন মেয়রের সাক্ষাৎ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43142/- যমুনা নিউজ: শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদের সঙ্গে সচিবালয়ে যুক্তরাজ্যের লন্ডন বোরো অব ক্যামডেন-এর মেয়র নাদিয়া শাহ’সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন।

প্রতিনিধিদলে অন্যান্যের মধ্যে লিডার অভ্ দি কাউন্সিল সারাহ হ্যাওয়ার্ডের ০৫ কাউন্সিলরসহ ১০ জন উপস্থিত ছিলেন।
প্রতিনিধিদলকে বাংলাদেশে স্বাগত জানিয়ে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, যুক্তরাজ্য বাংলাদেশের অন্যতম উন্নয়ন সহযোগী এবং ঘনিষ্ঠ বন্ধুরাষ্ট্র। বাংলাদেশের বিভিন্ন ক্ষেত্রে যুক্তরাজ্য সহযোগিতা করে আসছে। ভবিষ্যতে এ সহযোগিতা আরো জোরদার হবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

মন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশে প্রাথমিক ও মাধ্যমিক স্কুলগুলোতে ড্রপ-আউট অনেক কমে এসেছে। স্কুলে যাওয়া ছেলেমেয়েদের মধ্যে জেন্ডার সমতা অর্জিত হয়েছে। স্কুলগুলোতে মেয়েদের সংখ্যা এখন ছেলেদের চেয়ে বেশি। শিক্ষার মান উন্নয়নের লক্ষ্যে সরকার এখন কাজ করছে। তিনি শিক্ষার মান উন্নয়নে এবং উচ্চ শিক্ষার ক্ষেত্রে যুক্তরাজ্যের সহযোগিতা কামনা করেন।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, নতুন শিক্ষানীতিতে কারিগরি শিক্ষাকে অগ্রাধিকার দিয়ে এর বাস্তবায়ন করা হচ্ছে। বর্তমানে শতকরা ১৪ ভাগ শিক্ষার্থী বিভিন্ন কারিগরি বিষয়ে পড়াশুনা করছে। ২০২১ সালের মধ্যে তা ২০ শতাংশ এবং ২০৩০ সালে তা ৩০ শতাংশে উন্নীত করা হবে।

সাক্ষাৎকালে প্রতিনিধিদল বাংলাদেশের সাথে যুক্তরাজ্যের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের কথা উল্লেখ করে দুদেশের মধ্যে সহযোগিতা আরো বাড়ানোর ব্যাপারে আশাবাদ ব্যক্ত করেন। নারী শিক্ষায় বাংলাদেশের অগ্রগতির তারা প্রশংসা করেন। ক্যামডেন মেয়র বাংলাদেশে দরিদ্র শিশুদের শিক্ষা ও নারীর ক্ষমতায়নে সহযোগিতার ব্যাপারে আগ্রহ প্রকাশ করেন।

Jamunanews24.com/tofazzal/anis/manik/ 16 January 2017
যমুনা নিউজ: শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদের সঙ্গে সচিবালয়ে যুক্তরাজ্যের লন্ডন বোরো অব ক্যামডেন-এর মেয়র নাদিয়া শাহ’সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন।

প্রতিনিধিদলে অন্যান্যের মধ্যে লিডার অভ্ দি কাউন্সিল সারাহ হ্যাওয়ার্ডের ০৫ কাউন্সিলরসহ ১০ জন উপস্থিত ছিলেন।
প্রতিনিধিদলকে বাংলাদেশে স্বাগত জানিয়ে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, যুক্তরাজ্য বাংলাদেশের অন্যতম উন্নয়ন সহযোগী এবং ঘনিষ্ঠ বন্ধুরাষ্ট্র। বাংলাদেশের বিভিন্ন ক্ষেত্রে যুক্তরাজ্য সহযোগিতা করে আসছে। ভবিষ্যতে এ সহযোগিতা আরো জোরদার হবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

মন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশে প্রাথমিক ও মাধ্যমিক স্কুলগুলোতে ড্রপ-আউট অনেক কমে এসেছে। স্কুলে যাওয়া ছেলেমেয়েদের মধ্যে জেন্ডার সমতা অর্জিত হয়েছে। স্কুলগুলোতে মেয়েদের সংখ্যা এখন ছেলেদের চেয়ে বেশি। শিক্ষার মান উন্নয়নের লক্ষ্যে সরকার এখন কাজ করছে। তিনি শিক্ষার মান উন্নয়নে এবং উচ্চ শিক্ষার ক্ষেত্রে যুক্তরাজ্যের সহযোগিতা কামনা করেন।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, নতুন শিক্ষানীতিতে কারিগরি শিক্ষাকে অগ্রাধিকার দিয়ে এর বাস্তবায়ন করা হচ্ছে। বর্তমানে শতকরা ১৪ ভাগ শিক্ষার্থী বিভিন্ন কারিগরি বিষয়ে পড়াশুনা করছে। ২০২১ সালের মধ্যে তা ২০ শতাংশ এবং ২০৩০ সালে তা ৩০ শতাংশে উন্নীত করা হবে।

সাক্ষাৎকালে প্রতিনিধিদল বাংলাদেশের সাথে যুক্তরাজ্যের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের কথা উল্লেখ করে দুদেশের মধ্যে সহযোগিতা আরো বাড়ানোর ব্যাপারে আশাবাদ ব্যক্ত করেন। নারী শিক্ষায় বাংলাদেশের অগ্রগতির তারা প্রশংসা করেন। ক্যামডেন মেয়র বাংলাদেশে দরিদ্র শিশুদের শিক্ষা ও নারীর ক্ষমতায়নে সহযোগিতার ব্যাপারে আগ্রহ প্রকাশ করেন।

Jamunanews24.com/tofazzal/anis/manik/ 16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:48:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:48:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43142/-
রিয়ালের পরাজয়ে উৎফুল্ল বার্সা শিবির http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43141/-
স্পোর্টস ডেস্ক: হয়ত এমন একটি দিনের জন্য বসে ছিল বার্সা শিবির। রিয়ালের সঙ্গে পয়েন্টের ব্যবধান কমিয়ে আনার এর চেয়ে মনে হয় মোক্ষম কোন সুযোগ পাচ্ছিল না বার্সা। অবশেষে তাদের সেই ইচ্ছা পূরণ হলো। বলতে গেলে পঁচা শামুকেই পা কাটলো রিয়াল মাদ্রিদের।

চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী বার্সেলোনার মাঠে শেষ মুহূর্তে হার এড়ানোর নায়ক সার্জিও রামোস সাত দিন পর দেপোর্তিভো লা করুনার বিপক্ষে যোগ করা সময়ে গোল করে এনে দিয়েছিলেন ৩ পয়েন্ট। এবার দেখলেন মুদ্রার উল্টো পিঠ; শেষ দিকে করলেন আত্মঘাতী গোল। যোগ করা সময়ে দল হজম করল আরেকটি গোল। তাতে সব ধরনের প্রতিযোগিতা মিলিয়ে টানা ৪০ ম্যাচে অপরাজেয় থাকার রেকর্ডের সমাপ্তি ঘটলো। সেভিয়ার মাঠে রোমাঞ্চকর লিগ ম্যাচে ইনজুরি সময়ের গোলে হারের লজ্জা নিয়ে মাঠ ছাড়ে জিনেদিন জিদানের শিষ্যরা।

গত ১১ দিনে তৃতীয়বারের মতো মুখোমুখি হয় দু’দল। সবশেষ কোপা দেল রের ষোলোর দ্বিতীয় লেগে ৩-৩ গোলের ড্র (৬-৩ অ্যাগ্রিগেট) নিয়ে কোয়ার্টার ফাইনালে পা রাখে গ্যালাকটিকোরা। বার্সেলোনার কীর্তি টপকে গড়ে টানা অপরাজেয় থাকার স্প্যানিশ ইতিহাস। এবার লা লিগায় তাদের মাঠে হেরেই গেল লস ব্লাঙ্কসরা।

প্রতিপক্ষের মাঠে ম্যাচের শুরু থেকে আক্রমণাত্মক হয়ে খেলতে থাকে রিয়াল। ২৭তম মিনিটে প্রথম ভালো সুযোগটি রোনালদো নষ্ট করেন গোলরক্ষককে একা পেয়েও দুর্বল নীচু শটে। কিছুক্ষণ পর কঠিন হলেও একটি সুযোগ পেয়েছিল সেভিয়া; তবে গোলরক্ষক বরাবর শট মেরে বসেন সামির নাসরি।
৪০তম মিনিটে প্রথমার্ধের সহজতম সুযোগটি নষ্ট করেন রোনালদো। বাঁ-দিক থেকে বেনজেমার দারুণ পাস ১০ গজ দূরে ফাঁকায় পেয়েও ঠিকমতো শট নিতে পারেননি পর্তুগিজ ফরোয়ার্ড।

দ্বিতীয়ার্ধের পঞ্চম মিনিটে লুকা মদ্রিচকে ডি-বক্সে ট্যাকল করা হলে পেনাল্টির আবেদন করে রিয়াল; কিন্তু রেফারির সাড়া মেলেনি। তিন মিনিট পর এগিয়ে যেতে পারতো সেভিয়া। স্বদেশি নাসরির বাড়ানো বল ধরে আরেক ফরাসি মিডফিল্ডার ভিসাম বেন ইয়েদেরের নেওয়া কোনাকুনি শট ঝাঁপিয়ে ঠেকান কেইলর নাভাস।

৬৬তম মিনিটে পেনাল্টি থেকে এবারের লিগে নিজের দ্বাদশ গোলটি করেন রোনালদো। ডান দিক দিয়ে ক্ষিপ্র গতিতে ডি-বক্সে ঢুকে পড়া দানি কারবাহালকে গোলরক্ষক ছুটে এসে ফাউল করলে স্পটকিকের বাঁশি বাজিয়েছিলেন রেফারি।

৮৫তম মিনিটে রামোসের সেই চরম ভুল। ডান দিক থেকে স্প্যানিশ মিডফিল্ডার পাবলো সারাবিয়ার ফ্রি-কিক ঠেকাতে গিয়ে নিজেদের জালে ঠেলে দেন এই ডিফেন্ডার।

খেলায় সমতা ফেরানোর পর আক্রমণের ধার আরও বাড়িয়ে দেয় সেভিয়া। সেই সুবাদে অতিরিক্ত সময়ের ৯১ মিনিটে দুর্দান্ত এক গোলে স্বাগতিকদের জয় নিশ্চিত করেন স্তেভান ইয়োভেচিত। হাওয়ায় ভেসে বল জালে জড়ানোর সময় নাভাসের হাতের ছোঁয়া পায়। কিন্তু গোলরক্ষক জোরালো শট বাঁচাতে পারেননি। এই জয়ে ১৮ ম্যাচে ৩৯ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসেছে সেভিয়া। আর এক পয়েন্ট বেশি নিয়ে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে রিয়াল মাদ্রিদ।

jamunanews24.com/ali/16 january 2017
স্পোর্টস ডেস্ক: হয়ত এমন একটি দিনের জন্য বসে ছিল বার্সা শিবির। রিয়ালের সঙ্গে পয়েন্টের ব্যবধান কমিয়ে আনার এর চেয়ে মনে হয় মোক্ষম কোন সুযোগ পাচ্ছিল না বার্সা। অবশেষে তাদের সেই ইচ্ছা পূরণ হলো। বলতে গেলে পঁচা শামুকেই পা কাটলো রিয়াল মাদ্রিদের।
চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী বার্সেলোনার মাঠে শেষ মুহূর্তে হার এড়ানোর নায়ক সার্জিও রামোস সাত দিন পর দেপোর্তিভো লা করুনার বিপক্ষে যোগ করা সময়ে গোল করে এনে দিয়েছিলেন ৩ পয়েন্ট। এবার দেখলেন মুদ্রার উল্টো পিঠ; শেষ দিকে করলেন আত্মঘাতী গোল। যোগ করা সময়ে দল হজম করল আরেকটি গোল। তাতে সব ধরনের প্রতিযোগিতা মিলিয়ে টানা ৪০ ম্যাচে অপরাজেয় থাকার রেকর্ডের সমাপ্তি ঘটলো। সেভিয়ার মাঠে রোমাঞ্চকর লিগ ম্যাচে ইনজুরি সময়ের গোলে হারের লজ্জা নিয়ে মাঠ ছাড়ে জিনেদিন জিদানের শিষ্যরা।

গত ১১ দিনে তৃতীয়বারের মতো মুখোমুখি হয় দু’দল। সবশেষ কোপা দেল রের ষোলোর দ্বিতীয় লেগে ৩-৩ গোলের ড্র (৬-৩ অ্যাগ্রিগেট) নিয়ে কোয়ার্টার ফাইনালে পা রাখে গ্যালাকটিকোরা। বার্সেলোনার কীর্তি টপকে গড়ে টানা অপরাজেয় থাকার স্প্যানিশ ইতিহাস। এবার লা লিগায় তাদের মাঠে হেরেই গেল লস ব্লাঙ্কসরা।

প্রতিপক্ষের মাঠে ম্যাচের শুরু থেকে আক্রমণাত্মক হয়ে খেলতে থাকে রিয়াল। ২৭তম মিনিটে প্রথম ভালো সুযোগটি রোনালদো নষ্ট করেন গোলরক্ষককে একা পেয়েও দুর্বল নীচু শটে। কিছুক্ষণ পর কঠিন হলেও একটি সুযোগ পেয়েছিল সেভিয়া; তবে গোলরক্ষক বরাবর শট মেরে বসেন সামির নাসরি।
৪০তম মিনিটে প্রথমার্ধের সহজতম সুযোগটি নষ্ট করেন রোনালদো। বাঁ-দিক থেকে বেনজেমার দারুণ পাস ১০ গজ দূরে ফাঁকায় পেয়েও ঠিকমতো শট নিতে পারেননি পর্তুগিজ ফরোয়ার্ড।

দ্বিতীয়ার্ধের পঞ্চম মিনিটে লুকা মদ্রিচকে ডি-বক্সে ট্যাকল করা হলে পেনাল্টির আবেদন করে রিয়াল; কিন্তু রেফারির সাড়া মেলেনি। তিন মিনিট পর এগিয়ে যেতে পারতো সেভিয়া। স্বদেশি নাসরির বাড়ানো বল ধরে আরেক ফরাসি মিডফিল্ডার ভিসাম বেন ইয়েদেরের নেওয়া কোনাকুনি শট ঝাঁপিয়ে ঠেকান কেইলর নাভাস।

৬৬তম মিনিটে পেনাল্টি থেকে এবারের লিগে নিজের দ্বাদশ গোলটি করেন রোনালদো। ডান দিক দিয়ে ক্ষিপ্র গতিতে ডি-বক্সে ঢুকে পড়া দানি কারবাহালকে গোলরক্ষক ছুটে এসে ফাউল করলে স্পটকিকের বাঁশি বাজিয়েছিলেন রেফারি।

৮৫তম মিনিটে রামোসের সেই চরম ভুল। ডান দিক থেকে স্প্যানিশ মিডফিল্ডার পাবলো সারাবিয়ার ফ্রি-কিক ঠেকাতে গিয়ে নিজেদের জালে ঠেলে দেন এই ডিফেন্ডার।

খেলায় সমতা ফেরানোর পর আক্রমণের ধার আরও বাড়িয়ে দেয় সেভিয়া। সেই সুবাদে অতিরিক্ত সময়ের ৯১ মিনিটে দুর্দান্ত এক গোলে স্বাগতিকদের জয় নিশ্চিত করেন স্তেভান ইয়োভেচিত। হাওয়ায় ভেসে বল জালে জড়ানোর সময় নাভাসের হাতের ছোঁয়া পায়। কিন্তু গোলরক্ষক জোরালো শট বাঁচাতে পারেননি। এই জয়ে ১৮ ম্যাচে ৩৯ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসেছে সেভিয়া। আর এক পয়েন্ট বেশি নিয়ে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে রিয়াল মাদ্রিদ।

jamunanews24.com/ali/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:45:14 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:45:14 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43141/-
অসহায় মানুষ নিয়ে রাজনীতি করি না http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43140/- যমুনা নিউজ: আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, আমরা অসহায় মানুষ নিয়ে রাজনীতি করতে চাই না।

আজ সোমবার বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি জাতীয় চিত্রশালা ভবনে আয়োজিত বিএনপি জামায়াতের বর্বরোচিত তাণ্ডব ও অগ্নিসন্ত্রাসের খণ্ড চিত্র প্রদর্শনী অনুষ্ঠানে সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

সাবেক পরিবেশমন্ত্রী বলেন, জামায়াত- বিএনপির অস্থিতিশিলতা সৃষ্টির চক্রান্তকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ঐক্যবদ্ধ হয়ে প্রতিরোধ করা হবে।

তিনি বলেন, ‌এই অপশক্তিকে বাংলার মানুষ আস্তাকুড়ে ফেলে দিয়েছে। তাদের সঙ্গে জনগণের কোনো সম্পৃক্ততা নেই। শুধু সন্ত্রাসী, লুটেরা ও বিরোধী কুচক্রীদের সঙ্গে তাদের সম্পর্ক রয়েছে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন সড়ক যোগাযোগ ও সেতুমন্ত্রী আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

jamunanews24.com/nova/zobaida/ sm/16 january 2017
যমুনা নিউজ: আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, আমরা অসহায় মানুষ নিয়ে রাজনীতি করতে চাই না।

আজ সোমবার বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি জাতীয় চিত্রশালা ভবনে আয়োজিত বিএনপি জামায়াতের বর্বরোচিত তাণ্ডব ও অগ্নিসন্ত্রাসের খণ্ড চিত্র প্রদর্শনী অনুষ্ঠানে সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

সাবেক পরিবেশমন্ত্রী বলেন, জামায়াত- বিএনপির অস্থিতিশিলতা সৃষ্টির চক্রান্তকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ঐক্যবদ্ধ হয়ে প্রতিরোধ করা হবে।

তিনি বলেন, ‌এই অপশক্তিকে বাংলার মানুষ আস্তাকুড়ে ফেলে দিয়েছে। তাদের সঙ্গে জনগণের কোনো সম্পৃক্ততা নেই। শুধু সন্ত্রাসী, লুটেরা ও বিরোধী কুচক্রীদের সঙ্গে তাদের সম্পর্ক রয়েছে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন সড়ক যোগাযোগ ও সেতুমন্ত্রী আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

jamunanews24.com/nova/zobaida/ sm/16 january 2017
]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:38:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:38:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43140/-
পিপিএম পদক পাচ্ছেন সেই পুলিশ কনস্টেবল http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43139/- যমুনা নিউজ: সেই পুলিশ কনস্টেবল শের আলী প্রেসিডেন্ট পুলিশ পদকের (পিপিএম) জন্য মনোনীত হয়েছেন। ২৩ জানুয়ারি থেকে ২৭ জানুয়ারি পর্যন্ত অনুষ্ঠিত পুলিশ সপ্তাহে কনস্টেবল শের আলীর হাতে পিপিএম তুলে দেবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

দুর্ঘটনাকবলিত শিশুকে বাঁচানোর আকুতি নিয়ে কান্নায় ভেঙে পড়েছিলেন শের আলী। তার ওই ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যাপক আলোড়ন সৃষ্টি করেছিল।

গত বছরের ১৪ ডিসেম্বর শের আলীকে পিপিএম পদক দেওয়ার জন্য সুপারিশ করে সদর দফতরে চিঠি দেন সিএমপি কমিশনার।

পুলিশ কনস্টেবল শের আলী চট্টগ্রাম নগর পুলিশের গোয়েন্দা ইউনিটের উত্তর-দক্ষিণ বিভাগের বোমা নিষ্ক্রিয়করণ ইউনিটে কর্মরত আছেন। তার কনস্টেবল নম্বর ২৫৪৬।

Jamunanews24.com/sm/ 16 janu. 2017
যমুনা নিউজ: সেই পুলিশ কনস্টেবল শের আলী প্রেসিডেন্ট পুলিশ পদকের (পিপিএম) জন্য মনোনীত হয়েছেন। ২৩ জানুয়ারি থেকে ২৭ জানুয়ারি পর্যন্ত অনুষ্ঠিত পুলিশ সপ্তাহে কনস্টেবল শের আলীর হাতে পিপিএম তুলে দেবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

দুর্ঘটনাকবলিত শিশুকে বাঁচানোর আকুতি নিয়ে কান্নায় ভেঙে পড়েছিলেন শের আলী। তার ওই ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যাপক আলোড়ন সৃষ্টি করেছিল।

গত বছরের ১৪ ডিসেম্বর শের আলীকে পিপিএম পদক দেওয়ার জন্য সুপারিশ করে সদর দফতরে চিঠি দেন সিএমপি কমিশনার।

পুলিশ কনস্টেবল শের আলী চট্টগ্রাম নগর পুলিশের গোয়েন্দা ইউনিটের উত্তর-দক্ষিণ বিভাগের বোমা নিষ্ক্রিয়করণ ইউনিটে কর্মরত আছেন। তার কনস্টেবল নম্বর ২৫৪৬।

Jamunanews24.com/sm/ 16 janu. 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:34:32 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:34:32 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43139/-
আফগানিস্তানে বোমা হামলায় নিহত ৭ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43138/- যমুনা নিউজ: আফগানিস্তানের পূর্বাঞ্চলীয় প্রদেশ কান্দাহার রোববার রাস্তার পাশে পেতে রাখা একটি বোমা বিস্ফোরণে সাত বেসামরিক লোক নিহত হয়েছে। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এ কথা নিশ্চিত করেছে।

আফগান সরকারের পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘রোববার সকালে কান্দাহার প্রদেশের পাচিরাগাম জেলার বারগোলি গ্রামের রাস্তার পাশে পুতে রাখা বোমার বিস্ফোরণ ঘটে। আফগানিস্তানের শান্তি ও স্থিতিশীলতার শত্রুদরা রাস্তায় এই বোমা পুতে রাখে। বোমার ওপর দিয়ে একটি বেসামরিক গাড়ি যাওয়ার সময় বিস্ফোরণ ঘটে।

বিস্ফোরণে সাত বেসামরিক লোক নিহত ও অপর দুই জন আহত হয়েছে। দেশটির সরকার এই সন্ত্রাসী হামলার ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়েছে।

Jamunanews24.com/tofazzal/manik/ 16 January 2017
যমুনা নিউজ: আফগানিস্তানের পূর্বাঞ্চলীয় প্রদেশ কান্দাহার রোববার রাস্তার পাশে পেতে রাখা একটি বোমা বিস্ফোরণে সাত বেসামরিক লোক নিহত হয়েছে। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এ কথা নিশ্চিত করেছে।

আফগান সরকারের পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘রোববার সকালে কান্দাহার প্রদেশের পাচিরাগাম জেলার বারগোলি গ্রামের রাস্তার পাশে পুতে রাখা বোমার বিস্ফোরণ ঘটে। আফগানিস্তানের শান্তি ও স্থিতিশীলতার শত্রুদরা রাস্তায় এই বোমা পুতে রাখে। বোমার ওপর দিয়ে একটি বেসামরিক গাড়ি যাওয়ার সময় বিস্ফোরণ ঘটে।

বিস্ফোরণে সাত বেসামরিক লোক নিহত ও অপর দুই জন আহত হয়েছে। দেশটির সরকার এই সন্ত্রাসী হামলার ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়েছে।

Jamunanews24.com/tofazzal/manik/ 16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:31:13 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:31:13 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43138/-
ফিলিপাইনে সামরিক শাসন জারির হুমকি দুতের্তের http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43137/- যমুনা নিউজ: ফিলিপাইনে মাদক সমস্যা সমাধানে প্রয়োজনে সামরিক শাসন জারির করা হবে। দেশটির প্রেসিডেন্ট রদ্রিগো দুতের্তে সন্ত্রাসীদের প্রতি হুমকি দিয়ে এক কথা বলেন।

তিনি বলেন, দেশে যদি মাদক সমস্যা আরো তীব্র হয় তাহলে তিনি সুপ্রিমকোর্ট ও জাতীয় সংসদকে উপেক্ষা করে সামরিক শাসন জারি করবেন।

দুতের্তে পরিষ্কার করে বলেছেন, “পুরো জাতির বিপরীতে দু’একজনের অধিকার রক্ষার জন্য আমি সুপ্রিমকোর্টকে গণ্য করব না।” গতকাল (রোববার) ফিলিপাইনের প্রেসিডেন্টের বরাত দিয়ে রাশিয়ার গণমাধ্যম আরটি এ খবর দিয়েছে। ফিলিপাইনের চেম্বার অব কমার্সের এক বৈঠকে তিনি আরো বলেন, আইনি যেকোনো বাধা উপেক্ষা করে দেশের স্বার্থ রক্ষা করতে হবে।

দুতের্তে বলেন, “সমস্ত সীমাবদ্ধতা সত্ত্বেও সবার ওপরে দেশ এবং যদি পরিস্থিতি সত্যিই খারাপ হয় তাহলে আমি সামরিক শাসন জারি করব।” ফিলিপাইনের সংবিধান অনুযায়ী, বিদেশি আগ্রাসন কিংবা অভ্যন্তরীণ সশস্ত্র বিদ্রোহ দেখা দিলে কেবল সামরিক আইন জারি করতে পারেন প্রেসিডেন্ট। তবে সর্বোচ্চ আদালত বা সংসদ তা প্রত্যাহার করতে পারে।

Jamunanewes24.com/tofazzal/manik/ 16 January 2017
যমুনা নিউজ: ফিলিপাইনে মাদক সমস্যা সমাধানে প্রয়োজনে সামরিক শাসন জারির করা হবে। দেশটির প্রেসিডেন্ট রদ্রিগো দুতের্তে সন্ত্রাসীদের প্রতি হুমকি দিয়ে এক কথা বলেন।

তিনি বলেন, দেশে যদি মাদক সমস্যা আরো তীব্র হয় তাহলে তিনি সুপ্রিমকোর্ট ও জাতীয় সংসদকে উপেক্ষা করে সামরিক শাসন জারি করবেন।

দুতের্তে পরিষ্কার করে বলেছেন, “পুরো জাতির বিপরীতে দু’একজনের অধিকার রক্ষার জন্য আমি সুপ্রিমকোর্টকে গণ্য করব না।” গতকাল (রোববার) ফিলিপাইনের প্রেসিডেন্টের বরাত দিয়ে রাশিয়ার গণমাধ্যম আরটি এ খবর দিয়েছে। ফিলিপাইনের চেম্বার অব কমার্সের এক বৈঠকে তিনি আরো বলেন, আইনি যেকোনো বাধা উপেক্ষা করে দেশের স্বার্থ রক্ষা করতে হবে।

দুতের্তে বলেন, “সমস্ত সীমাবদ্ধতা সত্ত্বেও সবার ওপরে দেশ এবং যদি পরিস্থিতি সত্যিই খারাপ হয় তাহলে আমি সামরিক শাসন জারি করব।” ফিলিপাইনের সংবিধান অনুযায়ী, বিদেশি আগ্রাসন কিংবা অভ্যন্তরীণ সশস্ত্র বিদ্রোহ দেখা দিলে কেবল সামরিক আইন জারি করতে পারেন প্রেসিডেন্ট। তবে সর্বোচ্চ আদালত বা সংসদ তা প্রত্যাহার করতে পারে।

Jamunanewes24.com/tofazzal/manik/ 16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:26:58 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:26:58 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43137/-
স্পেনের কাছ থেকে রণতরী কিনবে সৌদি আরব http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43136/- যমুনা নিউজ: সৌদি আরব স্পেনের কাছ থেকে অত্যাধুনিক রণতরী কিনছে। স্পেনের রাজা ষষ্ঠ ফিলিপের চলমান রিয়াদ সফরকালে এ বিষয়ে সমঝোতা হচ্ছে।

রাজা ষষ্ঠ ফিলিপকে সর্বোচ্চ সৌদি সম্মাননা দিয়েছেন রাজা সালমান বিন আব্দুল আজিজ। সৌদি আরব সফররত স্পেনের রাজাকে রাজধানী রিয়াদে এ সম্মাননা দেয়া হয়।

রোববার সৌদি রাজার দেয়া মধ্যাহ্নভোজে অংশ নেন রাজা ষষ্ঠ ফিলিপ। এরপর এক বৈঠকে বিভিন্ন ক্ষেত্রে দ্বিপক্ষীয় সহযোগিতা শক্তিশালী করার ব্যাপারে আলাপ করেন দুই রাজা। এ সময় স্পেনের কাছ থেকে নতুন যুদ্ধজাহাজ কেনার ব্যাপারেও আলোচনা হয়।

রাজা ষষ্ঠ ফিলিপের চলতি রিয়াদ সফরে সৌদি আরবের কাছে স্পেনের ‘অ্যাভান্তে ২২০০’ রণতরী বিক্রির বিষয়টি চূড়ান্ত হবে। হেলি প্যাডসমৃদ্ধ এই রণতরীতে ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবস্থা মোতায়েন করা যায়। দু’দেশের মধ্যে এ সংক্রান্ত চুক্তির আনুমানিক মূল্য ধরা হয়েছে ২১০ কোটি ডলার।

বিশ্বের সপ্তম বৃহত্তম সমরাস্ত্র রপ্তানিকারক দেশ স্পেন। অন্যদিকে বিশ্বের অন্যতম বড় অস্ত্র আমদানিকারক দেশ সৌদি আরব। ইয়েমেনে দেশেটির গত প্রায় দুই বছরের সামরিক আগ্রাসনের জের ধরে আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংগঠনগুলো রিয়াদের কাছে অস্ত্র বিক্রি বন্ধ করতে পশ্চিমা দেশগুলোর প্রতি আহ্বান জানিয়েছে।

Jamunanews24.com/kabir/manik/ 16 Jan 2017
যমুনা নিউজ: সৌদি আরব স্পেনের কাছ থেকে অত্যাধুনিক রণতরী কিনছে। স্পেনের রাজা ষষ্ঠ ফিলিপের চলমান রিয়াদ সফরকালে এ বিষয়ে সমঝোতা হচ্ছে।

রাজা ষষ্ঠ ফিলিপকে সর্বোচ্চ সৌদি সম্মাননা দিয়েছেন রাজা সালমান বিন আব্দুল আজিজ। সৌদি আরব সফররত স্পেনের রাজাকে রাজধানী রিয়াদে এ সম্মাননা দেয়া হয়।

রোববার সৌদি রাজার দেয়া মধ্যাহ্নভোজে অংশ নেন রাজা ষষ্ঠ ফিলিপ। এরপর এক বৈঠকে বিভিন্ন ক্ষেত্রে দ্বিপক্ষীয় সহযোগিতা শক্তিশালী করার ব্যাপারে আলাপ করেন দুই রাজা। এ সময় স্পেনের কাছ থেকে নতুন যুদ্ধজাহাজ কেনার ব্যাপারেও আলোচনা হয়।

রাজা ষষ্ঠ ফিলিপের চলতি রিয়াদ সফরে সৌদি আরবের কাছে স্পেনের ‘অ্যাভান্তে ২২০০’ রণতরী বিক্রির বিষয়টি চূড়ান্ত হবে। হেলি প্যাডসমৃদ্ধ এই রণতরীতে ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবস্থা মোতায়েন করা যায়। দু’দেশের মধ্যে এ সংক্রান্ত চুক্তির আনুমানিক মূল্য ধরা হয়েছে ২১০ কোটি ডলার।

বিশ্বের সপ্তম বৃহত্তম সমরাস্ত্র রপ্তানিকারক দেশ স্পেন। অন্যদিকে বিশ্বের অন্যতম বড় অস্ত্র আমদানিকারক দেশ সৌদি আরব। ইয়েমেনে দেশেটির গত প্রায় দুই বছরের সামরিক আগ্রাসনের জের ধরে আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংগঠনগুলো রিয়াদের কাছে অস্ত্র বিক্রি বন্ধ করতে পশ্চিমা দেশগুলোর প্রতি আহ্বান জানিয়েছে।

Jamunanews24.com/kabir/manik/ 16 Jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:25:04 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:25:04 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43136/-
কিরগিজস্তানে বিমান বিধ্বস্ত সবাই নিহতের আশঙ্কা http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43135/- যমুনা নিউজ: কিরগিজস্তানের রাজধানী বিশকেকের কাছে একটি কার্গো বিমা বিধ্বস্ত হয়ে অন্তত ৩২ জন নিহত হয়েছে।বিমানটি তুর্কি এয়ারলাইন্সের বলে খবরে প্রকাশ করা হয়েছে। বিমানের বাকি সদস্যরাও নিহতের আশঙ্কা রয়েছে।

বোয়িং ৭৪৭ বিমানটি কিরগিজস্তানের মানাস বিমানবন্দরের কাছে বাংলাদেশ সময় সোমবার সকাল সাড়ে সাতটার দিকে বিধ্বস্ত হয়।

অবতরণের সময় ঘন কুয়াশার কারণে বিমানটি বিধ্বস্ত হয়েছে বলে প্রাথমিক খবরে বলা হয়েছে। বিমানটি ঠিকমতো নামতে না পেরে ডাচা-সু গ্রামের কয়েকটি ভবনে আঘাত করে। যারা নিহত হয়েছেন তাদের বেশিরভাগই গ্রামের লোকজন বলে জানা গেছে।

বিমানের আঘাতে দুটি বাড়িতে আগুন ধরে যায়। পরে ফায়ার সার্ভিসের লোকজন গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। বিমান দুর্ঘটনায় বেশ কয়েকজন আহত হয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে। বিমানবন্দরের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, বিমানটিতে অজ্ঞাত সংখ্যক ক্রু ছিলেন তবে কোনো যাত্রী ছিল না। বিমানটি হংকংয়ের উদ্দেশে যাচ্ছিল এবং মানাস বিমানবন্দরে সংক্ষিপ্ত যাত্রা বিরতির কথা ছিল।

Jamunanews24.com/tofazzal/anis/manik/ 16 January 2017
যমুনা নিউজ: কিরগিজস্তানের রাজধানী বিশকেকের কাছে একটি কার্গো বিমা বিধ্বস্ত হয়ে অন্তত ৩২ জন নিহত হয়েছে।বিমানটি তুর্কি এয়ারলাইন্সের বলে খবরে প্রকাশ করা হয়েছে। বিমানের বাকি সদস্যরাও নিহতের আশঙ্কা রয়েছে।

বোয়িং ৭৪৭ বিমানটি কিরগিজস্তানের মানাস বিমানবন্দরের কাছে বাংলাদেশ সময় সোমবার সকাল সাড়ে সাতটার দিকে বিধ্বস্ত হয়।

অবতরণের সময় ঘন কুয়াশার কারণে বিমানটি বিধ্বস্ত হয়েছে বলে প্রাথমিক খবরে বলা হয়েছে। বিমানটি ঠিকমতো নামতে না পেরে ডাচা-সু গ্রামের কয়েকটি ভবনে আঘাত করে। যারা নিহত হয়েছেন তাদের বেশিরভাগই গ্রামের লোকজন বলে জানা গেছে।

বিমানের আঘাতে দুটি বাড়িতে আগুন ধরে যায়। পরে ফায়ার সার্ভিসের লোকজন গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। বিমান দুর্ঘটনায় বেশ কয়েকজন আহত হয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে। বিমানবন্দরের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, বিমানটিতে অজ্ঞাত সংখ্যক ক্রু ছিলেন তবে কোনো যাত্রী ছিল না। বিমানটি হংকংয়ের উদ্দেশে যাচ্ছিল এবং মানাস বিমানবন্দরে সংক্ষিপ্ত যাত্রা বিরতির কথা ছিল।

Jamunanews24.com/tofazzal/anis/manik/ 16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:21:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:21:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43135/-
সিরিয়ায় সামরিক ঘাঁটি শক্তিশালী করবে রাশিয়া http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43134/- যমুনা নিউজ: সিরিয়ায় নিজেদের নৌ এবং বিমান ঘাঁটিগুলোর সক্ষমতা আরো বৃদ্ধি করবে রাশিয়া। যুদ্ধ বিধ্বস্ত দেশটিতে তৎপর সন্ত্রাসী গোষ্ঠীগুলোর বিরুদ্ধে বাশার সরকারের সহযোগিতায় আরো বেশি সক্রিয় হচ্ছে দেশটি।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একটি সূত্রের বরাত দিয়ে রুশ বার্তা সংস্থা ইন্টারফ্যাক্স রোববার এ খবর প্রকাশ করেছে।খবরে বলা হয়, সিরিয়ার উপকূলীয় প্রদেশ লাতাকিয়ার হেমেইমিম বিমান ঘাঁটির দ্বিতীয় রানওয়ে মেরামত শুরু করবে মস্কো।

সিরিয়ার অভ্যন্তরে রাশিয়ার স্থায়ী ঘাঁটি হেমেইমিমে রয়েছে। ঘাঁটিটি বাশার আল-আসাদ আন্তর্জাতিক বিমান ঘাঁটির কাছে অবস্থিত। এ ঘাঁটিতে কয়েক ডজন রুশ যুদ্ধবিমান রয়েছে। গোটা সিরিয়ায় সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে অভিযানে এসব বিমান ব্যবহৃত হয়।

ইন্টারফ্যাক্সের খবরে আরো বলা হয়েছে, সিরিয়ার দ্বিতীয় বৃহত্তম বন্দর তারতুসে রুশ নৌ ঘাঁটি রয়েছে। ক্রুজারের মতো বড় যুদ্ধজাহাজ যেন ভিড়তে পারে সে লক্ষ্যে এ ঘাঁটিরও উন্নয়ন করার পরিকল্পনা নিয়েছে রাশিয়া। ১৯৭৭ সাল থেকে এ ঘাঁটি ব্যবহার করছে রাশিয়া।

Jamunanews24.com/tofazzal/manik/ 16 January 2017
যমুনা নিউজ: সিরিয়ায় নিজেদের নৌ এবং বিমান ঘাঁটিগুলোর সক্ষমতা আরো বৃদ্ধি করবে রাশিয়া। যুদ্ধ বিধ্বস্ত দেশটিতে তৎপর সন্ত্রাসী গোষ্ঠীগুলোর বিরুদ্ধে বাশার সরকারের সহযোগিতায় আরো বেশি সক্রিয় হচ্ছে দেশটি।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একটি সূত্রের বরাত দিয়ে রুশ বার্তা সংস্থা ইন্টারফ্যাক্স রোববার এ খবর প্রকাশ করেছে।খবরে বলা হয়, সিরিয়ার উপকূলীয় প্রদেশ লাতাকিয়ার হেমেইমিম বিমান ঘাঁটির দ্বিতীয় রানওয়ে মেরামত শুরু করবে মস্কো।

সিরিয়ার অভ্যন্তরে রাশিয়ার স্থায়ী ঘাঁটি হেমেইমিমে রয়েছে। ঘাঁটিটি বাশার আল-আসাদ আন্তর্জাতিক বিমান ঘাঁটির কাছে অবস্থিত। এ ঘাঁটিতে কয়েক ডজন রুশ যুদ্ধবিমান রয়েছে। গোটা সিরিয়ায় সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে অভিযানে এসব বিমান ব্যবহৃত হয়।

ইন্টারফ্যাক্সের খবরে আরো বলা হয়েছে, সিরিয়ার দ্বিতীয় বৃহত্তম বন্দর তারতুসে রুশ নৌ ঘাঁটি রয়েছে। ক্রুজারের মতো বড় যুদ্ধজাহাজ যেন ভিড়তে পারে সে লক্ষ্যে এ ঘাঁটিরও উন্নয়ন করার পরিকল্পনা নিয়েছে রাশিয়া। ১৯৭৭ সাল থেকে এ ঘাঁটি ব্যবহার করছে রাশিয়া।

Jamunanews24.com/tofazzal/manik/ 16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:19:03 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:19:03 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43134/-
বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করলে কঠোর ব্যবস্থা http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43133/- যমুনা নিউজ: ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের নেয়া সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আন্দোলনকারী হকারদের কড়া হুঁশিয়ারি দিয়েছেন দক্ষিণ সিটি মেয়র মোহাম্মদ সাইদ খোকন। তিনি বলেছেন, বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করলে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে। মেয়র বলেন, জনগণের রাস্তা, ফুটপাত দখলমুক্ত করতে যা করা দরকার আমরা তাই করব।হকারদের দখলে রাস্তা ফুটপাত ছেড়ে দেয়া যাবে না। তিনি আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রী ঢাকাকে বাসযোগ্য করতে, জনগণের রাস্তা-ফুটপাত জনগণকে ফিরিয়ে দিতে নির্দেশ দিয়েছেন। আমরা তা বাস্তবায়ন করবই। কর্মদিবসে সন্ধ্যা ছয়টার আগে হকার বসতে না দেয়ার সিদ্ধান্তের ব্যাপারে তিনি বলেন, রাজনৈতিক নেতা ও হকার নেতাদের সঙ্গে আলোচনা করেই এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। আমরা যেকোনো মূল্যে এই সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন করব। আজ দুপুরে বাংলাদেশ হকার্স ইউনিয়নের নেতারা মেয়রের কাছে স্মারকলিপি দিতে এলে তিনি সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন। স্মারকলিপি দিতে আসা নেতাদের উদ্দেশ্যে মেয়র বলেন, আপনাদের কোনো সুনির্দিষ্ট প্রস্তাব নেই। তাই এটা আমলে নেয়া যাবে না। তিনি আরও বলেন, আপনাদের এই সংগঠনের জন্ম হয়েছে সাতদিন আগে। আপনাদের কোনো নিবন্ধন নেই।অনিবন্ধিত সংগঠনের কোনো অভিযোগ আমলে নেয়ার সুযোগ নেই। হকারদের পুনর্বাসন সম্পর্কে মেয়র বলেন, যে ২৫০০ জনের তালিকা করা হয়েছে তাদের খুব শিগগিরই পূনর্বাসনের ব্যবস্থা নেয়া হবে। হকার পুনর্বাসন বা হকারদের স্বার্থের কথা বলে কেউ কোনো বিশৃঙ্খলা করলে তা কঠোর হাতে দমন করা হবে। বাংলাদেশ হকার্স ইউনিয়নের ব্যানারে স্মারকলিপি দিতে আসেন আবুল হাসেম কবির, মুশফিকুল ইসলাম শিমুল, শফিকুর রহমান বাবুল, মঞ্জুর মুইনসহ মোট এগারজন। এদিকে সিটি করপোরেশনের নেয়া সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আজ সকাল থেকেই বিক্ষোভ করছেন হকারদের একটি অংশ। তারা বঙ্গবাজার, বঙ্গবন্ধু এভিনিউসহ গুলিস্তান ও এর আশপাশের এলাকায় রাস্তা অবরোধ করে বিক্ষোভ চালিয়ে যাচ্ছেন। jamunanews24.com/Kashem/hasib/sm/16 January 2017
যমুনা নিউজ: ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের নেয়া সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আন্দোলনকারী হকারদের কড়া হুঁশিয়ারি দিয়েছেন দক্ষিণ সিটি মেয়র মোহাম্মদ সাইদ খোকন। তিনি বলেছেন, বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করলে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে। মেয়র বলেন, জনগণের রাস্তা, ফুটপাত দখলমুক্ত করতে যা করা দরকার আমরা তাই করব।হকারদের দখলে রাস্তা ফুটপাত ছেড়ে দেয়া যাবে না। তিনি আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রী ঢাকাকে বাসযোগ্য করতে, জনগণের রাস্তা-ফুটপাত জনগণকে ফিরিয়ে দিতে নির্দেশ দিয়েছেন। আমরা তা বাস্তবায়ন করবই। কর্মদিবসে সন্ধ্যা ছয়টার আগে হকার বসতে না দেয়ার সিদ্ধান্তের ব্যাপারে তিনি বলেন, রাজনৈতিক নেতা ও হকার নেতাদের সঙ্গে আলোচনা করেই এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। আমরা যেকোনো মূল্যে এই সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন করব। আজ দুপুরে বাংলাদেশ হকার্স ইউনিয়নের নেতারা মেয়রের কাছে স্মারকলিপি দিতে এলে তিনি সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন। স্মারকলিপি দিতে আসা নেতাদের উদ্দেশ্যে মেয়র বলেন, আপনাদের কোনো সুনির্দিষ্ট প্রস্তাব নেই। তাই এটা আমলে নেয়া যাবে না। তিনি আরও বলেন, আপনাদের এই সংগঠনের জন্ম হয়েছে সাতদিন আগে। আপনাদের কোনো নিবন্ধন নেই।অনিবন্ধিত সংগঠনের কোনো অভিযোগ আমলে নেয়ার সুযোগ নেই। হকারদের পুনর্বাসন সম্পর্কে মেয়র বলেন, যে ২৫০০ জনের তালিকা করা হয়েছে তাদের খুব শিগগিরই পূনর্বাসনের ব্যবস্থা নেয়া হবে। হকার পুনর্বাসন বা হকারদের স্বার্থের কথা বলে কেউ কোনো বিশৃঙ্খলা করলে তা কঠোর হাতে দমন করা হবে। বাংলাদেশ হকার্স ইউনিয়নের ব্যানারে স্মারকলিপি দিতে আসেন আবুল হাসেম কবির, মুশফিকুল ইসলাম শিমুল, শফিকুর রহমান বাবুল, মঞ্জুর মুইনসহ মোট এগারজন। এদিকে সিটি করপোরেশনের নেয়া সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আজ সকাল থেকেই বিক্ষোভ করছেন হকারদের একটি অংশ। তারা বঙ্গবাজার, বঙ্গবন্ধু এভিনিউসহ গুলিস্তান ও এর আশপাশের এলাকায় রাস্তা অবরোধ করে বিক্ষোভ চালিয়ে যাচ্ছেন। jamunanews24.com/Kashem/hasib/sm/16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:16:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:16:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43133/-
কাশ্মীরে ভারতীয় সেনার আক্রমণে নিহত ৩ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43132/- যমুনা নিউজ: কাশ্মীরের পাহেল গাঁওয় এলাকায় ভারতীয় সেনাদের বিশেষ অভিযানের সময় এনকাউন্টারে তিনজন নিহত হয়েছেন। নিহতদের জঙ্গি বলে দাবি করেছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যমগুলো।

সোমবার সকালে জম্মু-কাশ্মীরের দক্ষিণাঞ্চলের আনন্তনাগ জেলার পাহেল গাঁও এলাকার আউরা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনাস্থল থেকে থ্রি-একে ৪৭ রাইফেল উদ্ধার করা হয়েছে।

পুলিশ জানিয়েছে, গোয়েন্দা সংস্থার গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রোববার সন্ধ্যার দিকে ওই এলাকা ঘেরাও করে ফেলে সেনা সদস্যরা। সারারাত চলে সেখানে অভিযান। পরে সোমবার সকালের দিকে এনকাউন্টারে তিন জঙ্গি নিহত হয়েছে।

Jamunanews24.com/tofazzal/anis/manik/ 16 January 2017
যমুনা নিউজ: কাশ্মীরের পাহেল গাঁওয় এলাকায় ভারতীয় সেনাদের বিশেষ অভিযানের সময় এনকাউন্টারে তিনজন নিহত হয়েছেন। নিহতদের জঙ্গি বলে দাবি করেছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যমগুলো।

সোমবার সকালে জম্মু-কাশ্মীরের দক্ষিণাঞ্চলের আনন্তনাগ জেলার পাহেল গাঁও এলাকার আউরা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনাস্থল থেকে থ্রি-একে ৪৭ রাইফেল উদ্ধার করা হয়েছে।

পুলিশ জানিয়েছে, গোয়েন্দা সংস্থার গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রোববার সন্ধ্যার দিকে ওই এলাকা ঘেরাও করে ফেলে সেনা সদস্যরা। সারারাত চলে সেখানে অভিযান। পরে সোমবার সকালের দিকে এনকাউন্টারে তিন জঙ্গি নিহত হয়েছে।

Jamunanews24.com/tofazzal/anis/manik/ 16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:15:32 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:15:32 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43132/-
জাপান-ইন্দোনেশিয়া সামরিক সহযোগিতা বাড়াবে http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43131/- যমুনা নিউজ: চীনের মোকাবেলায় জাপান ও ইন্দোনেশিয়া সামরিক সহযোগিতা বাড়াবে।

আপাত দৃষ্টিতে ধারণা করা হচ্ছে, সাগরে চীনের উপস্থিতি বাড়ায় দেশ দুটি এ মতৈক্যে পৌঁছেছে।

ইন্দোনেশিয়া সফরকারী জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো অ্যাবে রোববার বলেছেন, দেশ দু’টি তাদের মধ্যে সাগরে নিরাপত্তা এবং সামরিক সহযোগিতা জোরদার করবে।

তিনি আরো বলেন, সাগরে নিরাপত্তার বিষয়ে ইন্দোনেশিয়াকে সক্রিয় সহযোগিতা যোগাবে জাপান। এ ছাড়া, ইন্দোচীনের দূরবর্তী দ্বীপপুঞ্জের উন্নয়নেও সক্রিয় সহযোগিতার প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেন তিনি।

পাশাপাশি সাগরে সহযোগিতার বিষয়কে জাপান এবং ইন্দোনেশিয়া সর্বোচ্চ অগ্রাধিকার দেয় বলে জানান তিনি।

এ সব ক্ষেত্রে দেশ দু’টির মধ্যে গভীর সহযোগিতা নিয়ে আলোচনার জন্য চলতি বছরই দেশ দু’টির প্রতিরক্ষা এবং পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা বৈঠক করবেন বলেও জানান তিনি।

সাগর সীমান্ত নিয়ে চীনের সঙ্গে বিরোধে জড়িয়ে রয়েছে জাপান এবং ইন্দোনেশিয়া। পূর্ব চীন সাগরে জনবসতিহীন দু’টি দ্বীপ নিয়ে চীনের সঙ্গে বিরোধ চলছে জাপানের। অন্যদিকে নাতুনা দ্বীপপুঞ্জে চীনের বর্ধিত দাবির বিরোধিতা করছে জার্কাতা।

Jamunanews24.com/kabir/manik/ 16 Jan 2017
যমুনা নিউজ: চীনের মোকাবেলায় জাপান ও ইন্দোনেশিয়া সামরিক সহযোগিতা বাড়াবে।

আপাত দৃষ্টিতে ধারণা করা হচ্ছে, সাগরে চীনের উপস্থিতি বাড়ায় দেশ দুটি এ মতৈক্যে পৌঁছেছে।

ইন্দোনেশিয়া সফরকারী জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো অ্যাবে রোববার বলেছেন, দেশ দু’টি তাদের মধ্যে সাগরে নিরাপত্তা এবং সামরিক সহযোগিতা জোরদার করবে।

তিনি আরো বলেন, সাগরে নিরাপত্তার বিষয়ে ইন্দোনেশিয়াকে সক্রিয় সহযোগিতা যোগাবে জাপান। এ ছাড়া, ইন্দোচীনের দূরবর্তী দ্বীপপুঞ্জের উন্নয়নেও সক্রিয় সহযোগিতার প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেন তিনি।

পাশাপাশি সাগরে সহযোগিতার বিষয়কে জাপান এবং ইন্দোনেশিয়া সর্বোচ্চ অগ্রাধিকার দেয় বলে জানান তিনি।

এ সব ক্ষেত্রে দেশ দু’টির মধ্যে গভীর সহযোগিতা নিয়ে আলোচনার জন্য চলতি বছরই দেশ দু’টির প্রতিরক্ষা এবং পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা বৈঠক করবেন বলেও জানান তিনি।

সাগর সীমান্ত নিয়ে চীনের সঙ্গে বিরোধে জড়িয়ে রয়েছে জাপান এবং ইন্দোনেশিয়া। পূর্ব চীন সাগরে জনবসতিহীন দু’টি দ্বীপ নিয়ে চীনের সঙ্গে বিরোধ চলছে জাপানের। অন্যদিকে নাতুনা দ্বীপপুঞ্জে চীনের বর্ধিত দাবির বিরোধিতা করছে জার্কাতা।

Jamunanews24.com/kabir/manik/ 16 Jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:13:36 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:13:36 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43131/-
যে কারণে ভাঙে সম্পর্ক http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43130/- যমুনা নিউজ: অনেক সময় দেখা যায় বহুদিনের সম্পর্ক হঠাৎই একদিনে শেষ হয়ে গেল। যারা একে–অপরকে ছাড়া থাকতে পারত না। তারাই তখন মাসের পর মাস কথা না বলে কাটিয়ে দেয়। সম্পর্ক ভাঙার পিছনে কিন্তু দায়ী কয়েকটি কারণ। সময়মতো খেয়াল করে সেই কারণগুলোকে দূরে সরিয়ে দিলেই বেঁচে যেতে পারে সম্পর্ক। জেনে নিন সেরকমই পাঁচটি কারণ:‌

১.‌ সম্পর্কে জড়ানোর সময় অনেকের মধ্যেই কিছু পরিবর্তন লক্ষ্য করা যায়। সঙ্গীর পছন্দের সঙ্গে মানিয়ে নিতে অনেকেই এটা করেন। কিন্তু সম্পর্কের বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে আগের মতো হয়ে গেলেই সমস্যা। তখনই দু’‌জনের মধ্যে অশান্তির সূত্রপাত হতে পারে। যা পরবর্তীকালে সম্পর্ক ভাঙার দিকে নিয়ে যেতে পারে। তাই নিজে যেরকম সেরকমভাবেই সম্পর্কে যাওয়া উচিত।

২.‌ একে অপরের ওপর বিশ্বাস এবং সৎ থাকাটা একটি সম্পর্কের মূল ভিত্তি। কিন্তু সম্পর্কের মধ্যে সততা এবং বিশ্বাস যখন মিলিয়ে যায়, তখন সেটি ভেঙে যেতে বাধ্য।

৩.‌ প্রথম দিকে সঙ্গীর প্রতিটি কাজে আপনি বাহবা জানাতেন। কিন্তু ধীরে ধীরে সেটির পরিমাণ কমে গেলে, তার মনে রাগ জন্মাবেই। আর তা নিয়ে মাঝেমধ্যে অশান্তির সৃষ্টি হবে। পরে যা সম্পর্কে ভাঙন ধরাতে ইন্ধন জোগাবে।

৪. আপনার হয়তো ভবিষ্যত পরিকল্পনা এক, আর আপনার সঙ্গীর আরেক। তাহলে মনে রাখবেন, সেক্ষেত্রে সম্পর্কে ভাঙন ধরার যথেষ্ট সুযোগ থাকে। যদিও ব্যতিক্রম অবশ্যই আছে।

৫.‌ আগে অনেক সময় দিতেন, ধৈর্য ধরে কথাও শুনতেন। কিন্তু এখন আর সেটা করতে পারেন না। তাহলে কিন্তু সমস্যা আসবে সম্পর্কে। এই ঝামেলা এড়াতে নিজেদের মধ্যে কথা বলুন। মনোমালিন্য দূর করার চেষ্টা করুন।

jamunanews24.com/zobaida/ali/16 january 2017
যমুনা নিউজ: অনেক সময় দেখা যায় বহুদিনের সম্পর্ক হঠাৎই একদিনে শেষ হয়ে গেল। যারা একে–অপরকে ছাড়া থাকতে পারত না। তারাই তখন মাসের পর মাস কথা না বলে কাটিয়ে দেয়। সম্পর্ক ভাঙার পিছনে কিন্তু দায়ী কয়েকটি কারণ। সময়মতো খেয়াল করে সেই কারণগুলোকে দূরে সরিয়ে দিলেই বেঁচে যেতে পারে সম্পর্ক। জেনে নিন সেরকমই পাঁচটি কারণ:‌

১.‌ সম্পর্কে জড়ানোর সময় অনেকের মধ্যেই কিছু পরিবর্তন লক্ষ্য করা যায়। সঙ্গীর পছন্দের সঙ্গে মানিয়ে নিতে অনেকেই এটা করেন। কিন্তু সম্পর্কের বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে আগের মতো হয়ে গেলেই সমস্যা। তখনই দু’‌জনের মধ্যে অশান্তির সূত্রপাত হতে পারে। যা পরবর্তীকালে সম্পর্ক ভাঙার দিকে নিয়ে যেতে পারে। তাই নিজে যেরকম সেরকমভাবেই সম্পর্কে যাওয়া উচিত।

২.‌ একে অপরের ওপর বিশ্বাস এবং সৎ থাকাটা একটি সম্পর্কের মূল ভিত্তি। কিন্তু সম্পর্কের মধ্যে সততা এবং বিশ্বাস যখন মিলিয়ে যায়, তখন সেটি ভেঙে যেতে বাধ্য।

৩.‌ প্রথম দিকে সঙ্গীর প্রতিটি কাজে আপনি বাহবা জানাতেন। কিন্তু ধীরে ধীরে সেটির পরিমাণ কমে গেলে, তার মনে রাগ জন্মাবেই। আর তা নিয়ে মাঝেমধ্যে অশান্তির সৃষ্টি হবে। পরে যা সম্পর্কে ভাঙন ধরাতে ইন্ধন জোগাবে।

৪. আপনার হয়তো ভবিষ্যত পরিকল্পনা এক, আর আপনার সঙ্গীর আরেক। তাহলে মনে রাখবেন, সেক্ষেত্রে সম্পর্কে ভাঙন ধরার যথেষ্ট সুযোগ থাকে। যদিও ব্যতিক্রম অবশ্যই আছে।

৫.‌ আগে অনেক সময় দিতেন, ধৈর্য ধরে কথাও শুনতেন। কিন্তু এখন আর সেটা করতে পারেন না। তাহলে কিন্তু সমস্যা আসবে সম্পর্কে। এই ঝামেলা এড়াতে নিজেদের মধ্যে কথা বলুন। মনোমালিন্য দূর করার চেষ্টা করুন।

jamunanews24.com/zobaida/ali/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:12:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:12:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43130/-
পুতিনের সঙ্গে সম্মেলনের পরিকল্পনা ট্রাম্পের http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43129/- যমুনা নিউজ: দায়িত্ব নেয়ার পরই প্রথম বিদেশ সফরে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে সম্মেলনের পরিকল্পনা করছেন যুক্তরাষ্ট্রের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

নাম প্রকাশ না করে ব্রিটিশ কর্মকর্তাদের উদ্ধৃতি দিয়ে সানডে টাইমস এ খবর প্রকাশ করে। ট্রাম্প-পুতিন সম্মেলন করতে একমত মস্কো বলেও খবরে উল্লেখ করা হয়।

খবরে বলা হয়, ক্রেমলিনের সঙ্গে সম্পর্ক ‘পুনর্স্থাপন’করবেন ট্রাম্প। সম্মেলনস্থল হতে পারে আইসল্যান্ড। ১৯৮৬ সালে স্নায়ুযুদ্ধ চলাকালে আইসল্যান্ডের রিকজাভিকে সোভিয়েত নেতা মিখাইল গর্ভাচেভের সঙ্গে রোনাল্ড রিগান বৈঠক করেছিলেন।

খবরে বলা হয়েছে, দুই পরাশক্তির মধ্যে সম্পর্ক পুনরায় স্থাপনের অংশ হিসেবে পারমাণবিক অস্ত্র সীমিত করা সংক্রান্ত চুক্তি করতে ট্রাম্প কাজ শুরু করবেন। আগামী ২০ শুক্রবার মার্কিন প্রেসিডেন্ট হিসেবে শপথ নেবেন তিনি।

আইসল্যান্ড জানায়, সম্মেলনের পরিকল্পনার ব্যাপারে তারা জ্ঞাত নয়। তবে ওয়াশিংটন-মস্কোর মধ্যে সম্পর্ক উন্নয়নে সহায়তা করতে সম্মেলন আয়োজনে দেশটি আগ্রহী।

Jamunanews24.com/tofazzal/anis/nanik/ 16 January 2017
যমুনা নিউজ: দায়িত্ব নেয়ার পরই প্রথম বিদেশ সফরে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে সম্মেলনের পরিকল্পনা করছেন যুক্তরাষ্ট্রের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

নাম প্রকাশ না করে ব্রিটিশ কর্মকর্তাদের উদ্ধৃতি দিয়ে সানডে টাইমস এ খবর প্রকাশ করে। ট্রাম্প-পুতিন সম্মেলন করতে একমত মস্কো বলেও খবরে উল্লেখ করা হয়।

খবরে বলা হয়, ক্রেমলিনের সঙ্গে সম্পর্ক ‘পুনর্স্থাপন’করবেন ট্রাম্প। সম্মেলনস্থল হতে পারে আইসল্যান্ড। ১৯৮৬ সালে স্নায়ুযুদ্ধ চলাকালে আইসল্যান্ডের রিকজাভিকে সোভিয়েত নেতা মিখাইল গর্ভাচেভের সঙ্গে রোনাল্ড রিগান বৈঠক করেছিলেন।

খবরে বলা হয়েছে, দুই পরাশক্তির মধ্যে সম্পর্ক পুনরায় স্থাপনের অংশ হিসেবে পারমাণবিক অস্ত্র সীমিত করা সংক্রান্ত চুক্তি করতে ট্রাম্প কাজ শুরু করবেন। আগামী ২০ শুক্রবার মার্কিন প্রেসিডেন্ট হিসেবে শপথ নেবেন তিনি।

আইসল্যান্ড জানায়, সম্মেলনের পরিকল্পনার ব্যাপারে তারা জ্ঞাত নয়। তবে ওয়াশিংটন-মস্কোর মধ্যে সম্পর্ক উন্নয়নে সহায়তা করতে সম্মেলন আয়োজনে দেশটি আগ্রহী।

Jamunanews24.com/tofazzal/anis/nanik/ 16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:11:36 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:11:36 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43129/-
ভারতে নৌ-দুর্ঘটনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২৬ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43128/- যমুনা নিউজ: ভারতের পূর্বাঞ্চলে রোববারের নৌ-দুর্ঘটনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২৬ জনে দাঁড়িয়েছে। দেশটির এক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা সংবাদ মাধ্যমকে এ কথা জানান।

নিখোঁজদের সন্ধানে পানিতে তল্লাশি চলছে। মৃতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে জানানো হয়।

শনিবার সন্ধ্যায় ভারতের বিহারে নৌকাডুবির এ ঘটনা ঘটে। হিন্দুদের ধর্মীয় উৎসব মকর সংক্রান্তিতে যোগ দিয়ে ফেরার পথে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নৌকাটিতে ৪০ জন যাত্রী ছিলো বলে জানা গেছে।

নিখোঁজদের সন্ধানে রোববার সকাল থেকে দ্বিতীয় দপায় উদ্ধার অভিযান শুরু হয়েছে। আহতদের পাটনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। ডুবুরিদের পাশাপাশি স্থানীয়রা নৌকার মাধ্যমে নিখোঁজদের সন্ধান করছেন।

এদিকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এক টুইট বার্তায় নিহতদের পরিবারের প্রতি শোক ও সমবেদনা জানিয়েছেন। দুর্ঘটনায় নিহতদের প্রত্যেকের পরিবারকে ২ লাখ রুপি ও আহতদের চিকিৎসার জন্য ৫০ হাজার রুপি করে আর্থিক সহায়তা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন। খবর বার্তা সংস্থা এএফপি’র।

পাটনার জেলা ম্যাজিস্ট্রেট সঞ্জয় কুমার আগারওয়াল জানিয়েছেন, নৌকাটিতে ধারণক্ষমতার বেশি যাত্রী ছিল। নৌকাডুবির ঘটনার পর ঘুড়ি উৎসব বাতিল করা হয়েছে।

Jamunanews24.com/tofazzal/anis/manik/ 16 January 2017
যমুনা নিউজ: ভারতের পূর্বাঞ্চলে রোববারের নৌ-দুর্ঘটনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২৬ জনে দাঁড়িয়েছে। দেশটির এক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা সংবাদ মাধ্যমকে এ কথা জানান।

নিখোঁজদের সন্ধানে পানিতে তল্লাশি চলছে। মৃতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে জানানো হয়।

শনিবার সন্ধ্যায় ভারতের বিহারে নৌকাডুবির এ ঘটনা ঘটে। হিন্দুদের ধর্মীয় উৎসব মকর সংক্রান্তিতে যোগ দিয়ে ফেরার পথে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নৌকাটিতে ৪০ জন যাত্রী ছিলো বলে জানা গেছে।

নিখোঁজদের সন্ধানে রোববার সকাল থেকে দ্বিতীয় দপায় উদ্ধার অভিযান শুরু হয়েছে। আহতদের পাটনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। ডুবুরিদের পাশাপাশি স্থানীয়রা নৌকার মাধ্যমে নিখোঁজদের সন্ধান করছেন।

এদিকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এক টুইট বার্তায় নিহতদের পরিবারের প্রতি শোক ও সমবেদনা জানিয়েছেন। দুর্ঘটনায় নিহতদের প্রত্যেকের পরিবারকে ২ লাখ রুপি ও আহতদের চিকিৎসার জন্য ৫০ হাজার রুপি করে আর্থিক সহায়তা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন। খবর বার্তা সংস্থা এএফপি’র।

পাটনার জেলা ম্যাজিস্ট্রেট সঞ্জয় কুমার আগারওয়াল জানিয়েছেন, নৌকাটিতে ধারণক্ষমতার বেশি যাত্রী ছিল। নৌকাডুবির ঘটনার পর ঘুড়ি উৎসব বাতিল করা হয়েছে।

Jamunanews24.com/tofazzal/anis/manik/ 16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:09:53 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:09:53 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43128/-
ভারতের আধিপত্য মেনে নিব না: পাকিস্তান http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43127/- যমুনা নিউজ: পাকিস্তান কখনও ভারতের আধিপত্য মেনে নিবে না। পাক প্রধানমন্ত্রীর পররাষ্ট্র বিষয়ক উপদেষ্টা সারতাজ আজিজ এ কথা বলেছন।

তিনি আরো বলেন, কাশ্মির নিয়ে আলোচনা না হলে ভারতের সঙ্গে কোনো সংলাপ হতে পারে না।

পাকিস্তানে ডন নিউজ চ্যানেলের সঙ্গে আলোচনার সময় এসব কথা বলেন তিনি। সারতাজ দাবি করেন, ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মিরে হিজবুল মুজাহিদিনের নেতা বুরহান ওয়ানি নিহত হওয়ার পর নিয়ন্ত্রণ রেখার সমস্যা তুলে ধরে ভারত। পাশাপাশি সন্ত্রাসবাদ নিয়ে উত্তেজনাকর বক্তব্য দেয়।

এক প্রশ্নের জবাবে চীন-পাকিস্তান অর্থনৈতিক করিডর বা সিপিইসি’তে ভারতের যোগ দেয়ার বিষয়েও কথা বলেন সারতাজ। তিনি বলেন, সিপিইসি প্রকল্পের আওতায় অবকাঠামো উন্নয়নে যেকোনো দেশ ‘সাব-কন্ট্রাক্টর’ হিসেবে যোগ দিতে পারে। এ ধরনের সব অনুরোধ আলাদাভাবে পর্যালোচনা করে দেখতে চীন এবং পাকিস্তান সম্মত হয়েছে বলেও জানান তিনি।

Jamunanews24.com/kabir/manik/ 16 Jan 2017
যমুনা নিউজ: পাকিস্তান কখনও ভারতের আধিপত্য মেনে নিবে না। পাক প্রধানমন্ত্রীর পররাষ্ট্র বিষয়ক উপদেষ্টা সারতাজ আজিজ এ কথা বলেছন।

তিনি আরো বলেন, কাশ্মির নিয়ে আলোচনা না হলে ভারতের সঙ্গে কোনো সংলাপ হতে পারে না।

পাকিস্তানে ডন নিউজ চ্যানেলের সঙ্গে আলোচনার সময় এসব কথা বলেন তিনি। সারতাজ দাবি করেন, ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মিরে হিজবুল মুজাহিদিনের নেতা বুরহান ওয়ানি নিহত হওয়ার পর নিয়ন্ত্রণ রেখার সমস্যা তুলে ধরে ভারত। পাশাপাশি সন্ত্রাসবাদ নিয়ে উত্তেজনাকর বক্তব্য দেয়।

এক প্রশ্নের জবাবে চীন-পাকিস্তান অর্থনৈতিক করিডর বা সিপিইসি’তে ভারতের যোগ দেয়ার বিষয়েও কথা বলেন সারতাজ। তিনি বলেন, সিপিইসি প্রকল্পের আওতায় অবকাঠামো উন্নয়নে যেকোনো দেশ ‘সাব-কন্ট্রাক্টর’ হিসেবে যোগ দিতে পারে। এ ধরনের সব অনুরোধ আলাদাভাবে পর্যালোচনা করে দেখতে চীন এবং পাকিস্তান সম্মত হয়েছে বলেও জানান তিনি।

Jamunanews24.com/kabir/manik/ 16 Jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:08:08 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:08:08 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43127/-
ইতালিতে বই উৎসব http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43126/- ইতালি থেকে কমরেড খোন্দকার: ইতালিতে বসবাসকারী বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের নিয়ে বই উৎসব পালিত হয়েছে।'মায়ের ভাষায় কথা বলা প্রতিটি শিশুর অধিকার' প্রতিপাদ্যে ভেনিস বাংলা স্কুল এ আয়োজন করে।

শনিবার ইতালির মেসত্রেতে পালিত এ উৎসবে প্রধান অতিথি ছিলেন ইতালিতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আবদুস সোবহান শিকদার।

পলাশ রহমানের উপস্থাপনায় ও স্কুলের সভাপতি সৈয়দ কামরুল সরোয়ারের সভাপতিত্বে এ উৎসব পরিচালিত হয়।

রাষ্ট্রদূতকে শুভেচ্ছা জানিয়ে মানপত্র পাঠ করেন স্কুল পরিচালনা কমিটির সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান ও প্রিয়া। ভেনিস বাংলা স্কুলসহ স্থানীয় কমিউনিটির সংক্ষিপ্ত তথ্য তুলে ধরেন সহসভাপতি এমডি আকতার উদ্দিন ও দেখা মনি।

বই উৎসবে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, স্থানীয় সংসদ সদস্য দেলিয়া মুরের, ভেনিস ইমিগ্রেশন অফিসের প্রধান কর্মকর্তা জানফ্রাংকো বোনেচ্ছ, রেল এসোসিয়েশনের (DLF) সভাপতি সিলভানো এসগুওতো, দূতাবাসের ইকোনমিক কাউন্সিলর ড. মো. মফিজুর রহমান ও প্রথম সচিব মো. এরফানুল হক। এ ছাড়াও কম্যুনিটির বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

রাষ্ট্রদূত আবদুস সোবহান শিকদার বর্তমান সরকারের বিভিন্ন সাফল্য উল্লেখ করে বলেন, বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের মহাসড়কে অবস্থান করছে। এই ধারা অব্যাহত থাকলে ২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশ একটি মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হবে।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ সরকার প্রতি বছর ১ জানুয়ারী দেশে বই উৎসব পালন করে। শিশুদের হাতে কয়েক কোটি পাঠ্য বই তুলে দেয়। এরই ধারাবাহিকতায় সরকার প্রবাসী শিশুদের হাতেও বাংলা বই তুলে দেয়ার উদ্যোগ গ্রহণ করেছে। সেই লক্ষ্য বাস্তবায়নের জন্য ঢাকা থেকে বিদেশি মিশনগুলোয় পাঠ্য বই পাঠানো হয়েছে। ভেনিস বাংলা স্কুলের শিশুদের হাতে বাংলা বই তুলে দেয়ার মধ্য দিয়ে এ কর্মসূচির সূচনা করা হলো।

তিনি ভেনিস বাংলা স্কুল কর্তৃপক্ষকে ধন্যবাদ জানান এবং দূতাবাসের পক্ষ থেকে সার্বিক সহযোগিতা করার আশ্বাস দেন।

সভাপতি সৈয়দ কামরুল সরোয়ার বলেন, উৎসবের মাধ্যমে প্রবাসী শিশুদের হাতে বাংলা বই তুলে দেয়ার স্বপ্ন আমাদের অনেক দিনের। এ জন্য আমরা বার বার দূতাবাসের মাধ্যমে সরকারকে জনাতে চেষ্টা করেছি। বিভিন্ন সময় পত্রপত্রিকায় খবর প্রকাশিত হয়েছে। সোস্যাল মিডিয়ায় ব্যাপক লেখালেখি হয়েছে। ভেনিস বাংলা স্কুলের এত দিনের স্বপ্ন বাস্তবায়নে এগিয়ে আসার জন্য তিনি রাষ্ট্রদূত এবং সরকারকে ধন্যবাদ জানান। তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন, আগামী দিনেও এই ধারাবাহিকতা অব্যাহত থাকবে।

রাষ্ট্রদূত প্রায় অর্ধশত শিশু কিশোরের হাতে বাংলা বই তুলে দেন। এ সময় ভেনিস বাংলা স্কুল কর্তৃপক্ষ রাষ্ট্রদূতকে একটি ক্রেস্ট দিয়ে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। পরে রাষ্ট্রদূত সোবহান শিকদার বাংলা স্কুল পরিদর্শন করেন এবং ছেলে মেয়েদের লেখাপড়ার খবর নেন।

দুই দেশের জাতীয় সংগীত দিয়ে শুরু করা বই উৎসবে একটি দেশের গান পরিবেশন করে প্রিয়া এবং নৃত্য পরিবেশন করে সৈয়দ সোফিয়া।

Jamunanews24.com/tofazzal/anis/manik/ 16 Jan 2017
ইতালি থেকে কমরেড খোন্দকার: ইতালিতে বসবাসকারী বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের নিয়ে বই উৎসব পালিত হয়েছে।'মায়ের ভাষায় কথা বলা প্রতিটি শিশুর অধিকার' প্রতিপাদ্যে ভেনিস বাংলা স্কুল এ আয়োজন করে।

শনিবার ইতালির মেসত্রেতে পালিত এ উৎসবে প্রধান অতিথি ছিলেন ইতালিতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আবদুস সোবহান শিকদার।

পলাশ রহমানের উপস্থাপনায় ও স্কুলের সভাপতি সৈয়দ কামরুল সরোয়ারের সভাপতিত্বে এ উৎসব পরিচালিত হয়।

রাষ্ট্রদূতকে শুভেচ্ছা জানিয়ে মানপত্র পাঠ করেন স্কুল পরিচালনা কমিটির সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান ও প্রিয়া। ভেনিস বাংলা স্কুলসহ স্থানীয় কমিউনিটির সংক্ষিপ্ত তথ্য তুলে ধরেন সহসভাপতি এমডি আকতার উদ্দিন ও দেখা মনি।

বই উৎসবে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, স্থানীয় সংসদ সদস্য দেলিয়া মুরের, ভেনিস ইমিগ্রেশন অফিসের প্রধান কর্মকর্তা জানফ্রাংকো বোনেচ্ছ, রেল এসোসিয়েশনের (DLF) সভাপতি সিলভানো এসগুওতো, দূতাবাসের ইকোনমিক কাউন্সিলর ড. মো. মফিজুর রহমান ও প্রথম সচিব মো. এরফানুল হক। এ ছাড়াও কম্যুনিটির বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

রাষ্ট্রদূত আবদুস সোবহান শিকদার বর্তমান সরকারের বিভিন্ন সাফল্য উল্লেখ করে বলেন, বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের মহাসড়কে অবস্থান করছে। এই ধারা অব্যাহত থাকলে ২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশ একটি মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হবে।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ সরকার প্রতি বছর ১ জানুয়ারী দেশে বই উৎসব পালন করে। শিশুদের হাতে কয়েক কোটি পাঠ্য বই তুলে দেয়। এরই ধারাবাহিকতায় সরকার প্রবাসী শিশুদের হাতেও বাংলা বই তুলে দেয়ার উদ্যোগ গ্রহণ করেছে। সেই লক্ষ্য বাস্তবায়নের জন্য ঢাকা থেকে বিদেশি মিশনগুলোয় পাঠ্য বই পাঠানো হয়েছে। ভেনিস বাংলা স্কুলের শিশুদের হাতে বাংলা বই তুলে দেয়ার মধ্য দিয়ে এ কর্মসূচির সূচনা করা হলো।

তিনি ভেনিস বাংলা স্কুল কর্তৃপক্ষকে ধন্যবাদ জানান এবং দূতাবাসের পক্ষ থেকে সার্বিক সহযোগিতা করার আশ্বাস দেন।

সভাপতি সৈয়দ কামরুল সরোয়ার বলেন, উৎসবের মাধ্যমে প্রবাসী শিশুদের হাতে বাংলা বই তুলে দেয়ার স্বপ্ন আমাদের অনেক দিনের। এ জন্য আমরা বার বার দূতাবাসের মাধ্যমে সরকারকে জনাতে চেষ্টা করেছি। বিভিন্ন সময় পত্রপত্রিকায় খবর প্রকাশিত হয়েছে। সোস্যাল মিডিয়ায় ব্যাপক লেখালেখি হয়েছে। ভেনিস বাংলা স্কুলের এত দিনের স্বপ্ন বাস্তবায়নে এগিয়ে আসার জন্য তিনি রাষ্ট্রদূত এবং সরকারকে ধন্যবাদ জানান। তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন, আগামী দিনেও এই ধারাবাহিকতা অব্যাহত থাকবে।

রাষ্ট্রদূত প্রায় অর্ধশত শিশু কিশোরের হাতে বাংলা বই তুলে দেন। এ সময় ভেনিস বাংলা স্কুল কর্তৃপক্ষ রাষ্ট্রদূতকে একটি ক্রেস্ট দিয়ে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। পরে রাষ্ট্রদূত সোবহান শিকদার বাংলা স্কুল পরিদর্শন করেন এবং ছেলে মেয়েদের লেখাপড়ার খবর নেন।

দুই দেশের জাতীয় সংগীত দিয়ে শুরু করা বই উৎসবে একটি দেশের গান পরিবেশন করে প্রিয়া এবং নৃত্য পরিবেশন করে সৈয়দ সোফিয়া।

Jamunanews24.com/tofazzal/anis/manik/ 16 Jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:05:28 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:05:28 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43126/-
রাজেন্দ্রপুরে অজ্ঞাত যুবকের মরদেহ উদ্ধার http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43125/- যমুনা নিউজ: গাজীপুরের রাজেন্দ্রপুরে অজ্ঞাত পরিচয় (৩২) এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

সোমবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে সদর উপজেলার রাজেন্দ্রপুরে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের পাশে গজারী বন থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।
 
পুলিশ জানায়, রাজেন্দ্রপুর এলাকায় ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের পাশে গজারী বনে ওই যুবকের মরদেহ পড়ে থাকতে দেখে ভিড় জমান এলাকাবাসী। পরে টহল পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মরদেহ উদ্ধার করে।

নাওজোর হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. এমরান হোসেন জানান, প্রাথমিকভাবে ধারনা করা হচ্ছে ওই যুবকের গলায় মালফার পেঁচিয়ে হত্যা করে মরদেহ ফেলে গেছে দুর্বৃত্তরা। নিহতের গলায় কালো দাগ রয়েছে।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017
যমুনা নিউজ: গাজীপুরের রাজেন্দ্রপুরে অজ্ঞাত পরিচয় (৩২) এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

সোমবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে সদর উপজেলার রাজেন্দ্রপুরে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের পাশে গজারী বন থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।
 
পুলিশ জানায়, রাজেন্দ্রপুর এলাকায় ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের পাশে গজারী বনে ওই যুবকের মরদেহ পড়ে থাকতে দেখে ভিড় জমান এলাকাবাসী। পরে টহল পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মরদেহ উদ্ধার করে।

নাওজোর হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. এমরান হোসেন জানান, প্রাথমিকভাবে ধারনা করা হচ্ছে ওই যুবকের গলায় মালফার পেঁচিয়ে হত্যা করে মরদেহ ফেলে গেছে দুর্বৃত্তরা। নিহতের গলায় কালো দাগ রয়েছে।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:03:56 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:03:56 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43125/-
১২৩ বছরের লজ্জার রেকর্ড বাংলাদেশের http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43124/-
স্পোর্টস ডেস্ক: এমন রেকর্ড বাংলাদেশ কখনোই চায়নি। আসলে এই ম্যাচ যে টাইগাররা হারবে তা হয়তো কেউই ভাবেনি। প্রথম ইনিংসে ৫৯৫ রান করে হারা মানে, এর আগে এত রান করে আর কোনো দলই হারেনি। সর্বশেষ ১৮৯৪-৯৫ মৌসুমে অস্ট্রেলিয়া ৫৮৬ রান করেও শেষ পর্যন্ত ইংল্যান্ডের বিপক্ষে হারের মুখ দেখে।

এবার সেই লজ্জার রেকর্ডে নাম উঠালো বাংলাদেশ। ওয়েলিংটন টেস্টের প্রথম ইনিংসে ৫৯৫ রান তুলেও হারের তিক্ততা গিলতে হল টাইগারদের। ফলে ১২৩ বছরের রেকর্ড ভাঙল মুশফিকরা।

কোনো দলই এত বেশি রান তাড়া করে টেস্টে হারেনি। এর আগে প্রথম ইনিংসে ৭৬ বার ৫৯৫ বা এর বেশি রান সংগ্রহ হয়েছে। কোনোবারই পরাজয়ের তিক্ততা পায়নি সেই দলগুলো। তবে ড্র হয়েছে ৩৭ বার।

১৮৯৪ সালে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিডনিতে ৫৮৬ রান করে হেরেছিল অস্ট্রেলিয়া। প্রথম ইনিংসে সবচেয়ে বেশি রানের পর হারের রেকর্ড ছিল ওটাই।

২০০৬ সালে টেস্ট ক্রিকেটে প্রথম ইনিংসে ব্যাট করে তৃতীয় সর্বোচ্চ রান ৫৫১ করেছিল ইংল্যান্ড। অ্যাডিলেড টেস্টে সেদিন অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ৬ উইকেটে ৫৫১ রানে ইনিংস ঘোষণার পর উল্টো হেরেই যায় ইংলিশরা।

এবার ওয়েলিংটনে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ৭ উইকেটে পরাজিত হয়ে এমন বিব্রতকর রেকর্ডে নাম লেখাল বাংলাদেশ।

টেস্ট ক্রিকেটের ১৪০ বছরের দীর্ঘ ইতিহাসের বিরলতম ঘটনার জন্ম হলো আজ ওয়েলিংটনের বেসিন রিজার্ভে। যে মাঠে মাত্র দু`দিন আগে নতুন নতুন রেকর্ড গড়ে নিজেদের ছাড়িয়ে যাওয়া। পঞ্চম উইকেটে সাকিব আল হাসান আর মুশফিকুর রহিমের ৩৫৯ রানের বিশাল রেকর্ড গড়ে শুধু নিজ দেশের টেস্টে সবচেয়ে বড় পার্টনারশিপের রেকর্ড গড়েননি। ঐ জুটিতে ৩০০ পেড়িয়ে যেতে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে ওয়েলিংটনের বেসিন রিজার্ভে যে কোন উইকেটে সবচেয়ে বড় জুটিরও মালিক বনে যান সাকিব-মুশফিক।

সেই বেসিন রিজার্ভে অবশেষে ব্যর্থতার এক নতুন ইতিহাসেরও জন্ম হলো। সে ব্যর্থতার স্রষ্টাও টাইগাররা। এ মাঠে বাংলাদেশ শুধু রান পাহাড় গড়ে হারেনি। টেস্ট ক্রিকেটের ১৪০ বছরের সুদীর্ঘ ইতিহাসে প্রথম ও একমাত্র দল হিসেবে ৫৯৫ রানের হিমালয় সমান স্কোর গড়ে হারা প্রথম দলও হলো বাংলাদেশ। এ দীর্ঘ ইতিহাসে এর আগে কোন দলের ৫৯৫ রানের হিমালয় সমান স্কোর নিয়েও হারের রেকর্ড ছিল না।

টেস্ট ক্রিকেটে প্রথম ইনিংসে ব্যাট করে তৃতীয় সর্বাধীক ৫৫১ রান তুলে হারের রেকর্ডটা ইংল্যান্ডের। সেটা ২০০৬ সালের ঘটনা। অ্যাডিলেডে স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ৬ উইকেটে ৫৫১ রান তুলে ইনিংস ঘোষণার পর উল্টো হেরে যায় ইংলিশরা। এছাড়া টেস্টের প্রথম ইনিংসে বড় স্কোর গড়ে ম্যাচ হারার রেকর্ড আছে আরও কয়েকটি।

এর মধ্যে ১৯৬৮ সালের মার্চে ওয়েষ্ট ইন্ডিজ হেরেছিল ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে। পোর্ট অফ স্পেনে হওয়া সে ম্যাচে ক্যারিবীয়রা আগে ব্যাট করে ৭ উইকেটে ৫২৬ রান তুলে ইনিংস ঘোষনা করেও শেষ অবদি ম্যাচ হেরে যায়। এছাড়া প্রথম ইনিংসে ৫২০ এবং ৫১৯ রান করেও টেস্ট হারের রেকর্ড আছে একজোড়া। প্রথম ইনিংসে ৫২০ রান তুলেও শেষ পর্যন্ত টেস্ট হারের রেকর্ডটি অস্ট্রেলিয়ার। ১৯৫৩ সালে মেলবোর্নে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে প্রথম ইনিংসে ৫২০ রানের বড় স্কোর গড়েও কুলিয়ে উঠতে পারেনি অস্ট্রেলিয়া। ম্যাচ জিতে নেয় দক্ষিণ আফ্রিকা। এছাড়া ৫১৯ রান করে টেস্ট হারের রেকর্ডটি ইংল্যান্ডের। আজ থেকে অনেক আগে সেই ১৯২৯ সালের মার্চে মেলবোর্নে অজিদের সাথে ঐ বড় স্কোর গড়ার পরও শেষ পর্যন্ত হার মানে ইংলিশরা।

jamunanews24.com/ali/16 january 2017
স্পোর্টস ডেস্ক: এমন রেকর্ড বাংলাদেশ কখনোই চায়নি। আসলে এই ম্যাচ যে টাইগাররা হারবে তা হয়তো কেউই ভাবেনি। প্রথম ইনিংসে ৫৯৫ রান করে হারা মানে, এর আগে এত রান করে আর কোনো দলই হারেনি। সর্বশেষ ১৮৯৪-৯৫ মৌসুমে অস্ট্রেলিয়া ৫৮৬ রান করেও শেষ পর্যন্ত ইংল্যান্ডের বিপক্ষে হারের মুখ দেখে।
এবার সেই লজ্জার রেকর্ডে নাম উঠালো বাংলাদেশ। ওয়েলিংটন টেস্টের প্রথম ইনিংসে ৫৯৫ রান তুলেও হারের তিক্ততা গিলতে হল টাইগারদের। ফলে ১২৩ বছরের রেকর্ড ভাঙল মুশফিকরা।

কোনো দলই এত বেশি রান তাড়া করে টেস্টে হারেনি। এর আগে প্রথম ইনিংসে ৭৬ বার ৫৯৫ বা এর বেশি রান সংগ্রহ হয়েছে। কোনোবারই পরাজয়ের তিক্ততা পায়নি সেই দলগুলো। তবে ড্র হয়েছে ৩৭ বার।

১৮৯৪ সালে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিডনিতে ৫৮৬ রান করে হেরেছিল অস্ট্রেলিয়া। প্রথম ইনিংসে সবচেয়ে বেশি রানের পর হারের রেকর্ড ছিল ওটাই।

২০০৬ সালে টেস্ট ক্রিকেটে প্রথম ইনিংসে ব্যাট করে তৃতীয় সর্বোচ্চ রান ৫৫১ করেছিল ইংল্যান্ড। অ্যাডিলেড টেস্টে সেদিন অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ৬ উইকেটে ৫৫১ রানে ইনিংস ঘোষণার পর উল্টো হেরেই যায় ইংলিশরা।

এবার ওয়েলিংটনে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ৭ উইকেটে পরাজিত হয়ে এমন বিব্রতকর রেকর্ডে নাম লেখাল বাংলাদেশ।

টেস্ট ক্রিকেটের ১৪০ বছরের দীর্ঘ ইতিহাসের বিরলতম ঘটনার জন্ম হলো আজ ওয়েলিংটনের বেসিন রিজার্ভে। যে মাঠে মাত্র দু`দিন আগে নতুন নতুন রেকর্ড গড়ে নিজেদের ছাড়িয়ে যাওয়া। পঞ্চম উইকেটে সাকিব আল হাসান আর মুশফিকুর রহিমের ৩৫৯ রানের বিশাল রেকর্ড গড়ে শুধু নিজ দেশের টেস্টে সবচেয়ে বড় পার্টনারশিপের রেকর্ড গড়েননি। ঐ জুটিতে ৩০০ পেড়িয়ে যেতে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে ওয়েলিংটনের বেসিন রিজার্ভে যে কোন উইকেটে সবচেয়ে বড় জুটিরও মালিক বনে যান সাকিব-মুশফিক।

সেই বেসিন রিজার্ভে অবশেষে ব্যর্থতার এক নতুন ইতিহাসেরও জন্ম হলো। সে ব্যর্থতার স্রষ্টাও টাইগাররা। এ মাঠে বাংলাদেশ শুধু রান পাহাড় গড়ে হারেনি। টেস্ট ক্রিকেটের ১৪০ বছরের সুদীর্ঘ ইতিহাসে প্রথম ও একমাত্র দল হিসেবে ৫৯৫ রানের হিমালয় সমান স্কোর গড়ে হারা প্রথম দলও হলো বাংলাদেশ। এ দীর্ঘ ইতিহাসে এর আগে কোন দলের ৫৯৫ রানের হিমালয় সমান স্কোর নিয়েও হারের রেকর্ড ছিল না।

টেস্ট ক্রিকেটে প্রথম ইনিংসে ব্যাট করে তৃতীয় সর্বাধীক ৫৫১ রান তুলে হারের রেকর্ডটা ইংল্যান্ডের। সেটা ২০০৬ সালের ঘটনা। অ্যাডিলেডে স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ৬ উইকেটে ৫৫১ রান তুলে ইনিংস ঘোষণার পর উল্টো হেরে যায় ইংলিশরা। এছাড়া টেস্টের প্রথম ইনিংসে বড় স্কোর গড়ে ম্যাচ হারার রেকর্ড আছে আরও কয়েকটি।

এর মধ্যে ১৯৬৮ সালের মার্চে ওয়েষ্ট ইন্ডিজ হেরেছিল ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে। পোর্ট অফ স্পেনে হওয়া সে ম্যাচে ক্যারিবীয়রা আগে ব্যাট করে ৭ উইকেটে ৫২৬ রান তুলে ইনিংস ঘোষনা করেও শেষ অবদি ম্যাচ হেরে যায়। এছাড়া প্রথম ইনিংসে ৫২০ এবং ৫১৯ রান করেও টেস্ট হারের রেকর্ড আছে একজোড়া। প্রথম ইনিংসে ৫২০ রান তুলেও শেষ পর্যন্ত টেস্ট হারের রেকর্ডটি অস্ট্রেলিয়ার। ১৯৫৩ সালে মেলবোর্নে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে প্রথম ইনিংসে ৫২০ রানের বড় স্কোর গড়েও কুলিয়ে উঠতে পারেনি অস্ট্রেলিয়া। ম্যাচ জিতে নেয় দক্ষিণ আফ্রিকা। এছাড়া ৫১৯ রান করে টেস্ট হারের রেকর্ডটি ইংল্যান্ডের। আজ থেকে অনেক আগে সেই ১৯২৯ সালের মার্চে মেলবোর্নে অজিদের সাথে ঐ বড় স্কোর গড়ার পরও শেষ পর্যন্ত হার মানে ইংলিশরা।

jamunanews24.com/ali/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:01:43 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:01:43 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43124/-
ধ্যানেই মুক্তি! http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43123/- যমুনা নিউজ: মুনিঋষীরা ধ্যানের মধ্য দিয়ে দিনের পর দিন সমস্ত আবেগকে বশ করে এসেছেন। একথা কারো অজানা নয়। এমন কি গবেষণাও বলছে সেটাই। ধ্যান করলে মনোযোগ বাড়ে, এবার ধ্যানের আরো নানা গুণ প্রকাশ পেল মিশিগান বিশ্ববিদ্যালয়ের সমীক্ষায়।

শুধু মনোযোগ নয়, আবেগ নিয়ন্ত্রণের এর জুড়ি মেলা ভার। তাছাড়া ধ্যান করলে মৌলিক চিন্তা, একাগ্রতাও বৃদ্ধি পায়। গবেষক দলের প্রধান ইয়ানলি নিল বলেছেন, ‌আমাদের গবেষণা প্রমাণ করেছে ধ্যানাভ্যাসের ফলে কেবল মনোযোগী হওয়ার স্বাভাবিক ক্ষমতাই বাড়ে না মানসিক স্বাস্থ্যও ভাল থাকে। আবেগ নিয়ন্ত্রণের সহায়ক ধ্যান।

বৈজ্ঞানিক পদ্ধতিতে ৬৮ জনের ওপর মনযোগ নিয়ে গবেষণা করা হয়। তাদের অর্ধেককে ১৮ মিনিট ধরে অডিও–র মাধ্যমে নানা ধ্যানাভ্যাস করতে বলা হয়। তারপর তাদের নানা ভাষা শিখতে বলা হয়। অপরদের কেবল ভাষা শিক্ষা দেওয়া হয়।

দেখা গিয়েছে ধ্যানাভ্যাসকারীরা অনেক বেশি সফল হয়েছেন। এরপরেই তাদের আবেগ নিয়ন্ত্রণ পরীক্ষা করা হয়। দেখা গিয়েছে ধ্যানাভ্যাসকারীরা সেক্ষেত্রেও সফল।

কাজেই প্রতিদিন সকালে উঠেই মিনিট খানেক ধ্যান করুন। দেখবেন সারাটাদিন কেমন দারুন ভাবে কাটছে।

jamunanews24.com/zobaida/ali/16 january 2017
যমুনা নিউজ: মুনিঋষীরা ধ্যানের মধ্য দিয়ে দিনের পর দিন সমস্ত আবেগকে বশ করে এসেছেন। একথা কারো অজানা নয়। এমন কি গবেষণাও বলছে সেটাই। ধ্যান করলে মনোযোগ বাড়ে, এবার ধ্যানের আরো নানা গুণ প্রকাশ পেল মিশিগান বিশ্ববিদ্যালয়ের সমীক্ষায়।

শুধু মনোযোগ নয়, আবেগ নিয়ন্ত্রণের এর জুড়ি মেলা ভার। তাছাড়া ধ্যান করলে মৌলিক চিন্তা, একাগ্রতাও বৃদ্ধি পায়। গবেষক দলের প্রধান ইয়ানলি নিল বলেছেন, ‌আমাদের গবেষণা প্রমাণ করেছে ধ্যানাভ্যাসের ফলে কেবল মনোযোগী হওয়ার স্বাভাবিক ক্ষমতাই বাড়ে না মানসিক স্বাস্থ্যও ভাল থাকে। আবেগ নিয়ন্ত্রণের সহায়ক ধ্যান।

বৈজ্ঞানিক পদ্ধতিতে ৬৮ জনের ওপর মনযোগ নিয়ে গবেষণা করা হয়। তাদের অর্ধেককে ১৮ মিনিট ধরে অডিও–র মাধ্যমে নানা ধ্যানাভ্যাস করতে বলা হয়। তারপর তাদের নানা ভাষা শিখতে বলা হয়। অপরদের কেবল ভাষা শিক্ষা দেওয়া হয়।

দেখা গিয়েছে ধ্যানাভ্যাসকারীরা অনেক বেশি সফল হয়েছেন। এরপরেই তাদের আবেগ নিয়ন্ত্রণ পরীক্ষা করা হয়। দেখা গিয়েছে ধ্যানাভ্যাসকারীরা সেক্ষেত্রেও সফল।

কাজেই প্রতিদিন সকালে উঠেই মিনিট খানেক ধ্যান করুন। দেখবেন সারাটাদিন কেমন দারুন ভাবে কাটছে।

jamunanews24.com/zobaida/ali/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 14:01:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 14:01:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43123/-
নৃশংসতার বিচারে আদালত ২৬ জনকে ফাঁসি দিয়েছেন http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43122/- যমুনা নিউজ : আইনমন্ত্রী আনিসুল বলেন, নারায়ণগঞ্জের সাত খুনের নৃশংসতা, অপরাধের ষড়যন্ত্রের ঘৃণ্যতা বিচার করে আদালত ২৬ জনকে ফাঁসির রায় দিয়েছেন। আমার মনে হয় জনগণ এই রায়ে সন্তুষ্ট হবে এবং এই ঘৃণ্য অপরাধে যে ভীতির সৃষ্টি হয়েছিল সেই ভীতি দূর হবে।

সোমবার নারায়ণগঞ্জের আদালত রায় ঘোষণার পর দুপুরে সচিবালয়ে মন্ত্রী সাংবাদিকদের এ কথা বলেন। সাত খুনের মামলায় সাবেক কাউন্সিলর নূর হোসেন ও সাবেক তিন র‌্যাব কর্মকর্তাসহ ২৬ আসামির ফাঁসির রায় দিয়েছে আদালত। এ মামলার ৩৫ আসামির মধ‌্যে বাকি নয়জনকে দেওয়া হয়েছে বিভিন্ন মেয়াদের কারাদণ্ড।

কোনো মামলায় ফাঁসির আদেশ হলে অনুমোদনের জন্য সাত দিনের মধ্যে রায়ের নথি হাইকোর্ট বিভাগে পাঠানোর বাধ্যবাধকতা রয়েছে বলে জানান আইনমন্ত্রী।

তিনি বলেন, হাইকোর্ট ডিভিশন দণ্ড বহাল রাখলে আপিল বিভাগে আপিল করার সুযোগ থাকবে। সেই প্রক্রিয়া শেষ হলে রায় কার্যকর হবে।

মন্ত্রী বলেন, এই অপরাধের নৃশংতায় যারা জড়িত... বিজ্ঞ আদালত সাক্ষ‌্য-প্রমাণে তা পেয়েছেন… যদি অপরাধ হিসেবে হত্যাকাণ্ড প্রমাণিত হয় তাহলে কিন্তু ফাঁসি দেওয়াটা হচ্ছে দ্য ফার্স্ট পানিশমেন্ট। মিটিগেশন বা অন্যান্য কারণ দেখানো হলে তাহলে এটাকে যাবজ্জীবন দেওয়া যায়। সেই ক্ষেত্রে বিজ্ঞ আদালত এই অপরাধের নৃশংসতা, এই অপরাধের ষড়যন্ত্রের যে ঘৃণ্যতা- এসব বিচার করে ২৬ জনকে ফাঁসির রায় দিয়েছেন।

সাত খুনের ঘটনায় দণ্ডিত ৩৫ জনের মধ‌্যে ২৫ জনই আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস‌্য। মামলার নথিতে বলা হয়, এলাকায় আধিপত্য নিয়ে বিরোধ থেকে কাউন্সিলর নজরুল ইসলামকে হত্যার পরিকল্পনা করেন আরেক কাউন্সিলর নূর হোসেন। আর্থিক লেনদেনের মাধ্যমে র‌্যাব সদস্যদের দিয়ে ওই হত্যাকাণ্ড ঘটানো হয়।

এ বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করলে আনিসুল হক বলেন, যেই অপরাধ করুন, তাকে বিচারের আওতায় এনে তার সুষ্ঠু বিচার করাই হচ্ছে রাষ্ট্রের দায়িত্ব, আমার মনে হয় আমরা সেই দায়িত্ব পালন করতে পেরেছি।

আপনাদের একটা জিনিস মনে রাখতে হবে- এই দেশে জাতির পিতাকে হত্যা করার পরে ২১ বছর মামলার এজহার কেউ করেনি, সেই জায়গা থেকে আজকের বাংলাদেশ যেখানে এসেছে নিশ্চয়ই আপনারা স্বীকার করবেন এখানে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা হয়েছে।

আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীতে কাঠামোগত পরিবর্তন দরকার কি না- এমন প্রশ্নে আনিসুল বলেন, এসব বাহিনী স্ব স্ব মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে আছেন, এটা তাদের বিবেচনার বিষয়।

Jamunanews24.com/sm/ 16 janu. 2017
যমুনা নিউজ : আইনমন্ত্রী আনিসুল বলেন, নারায়ণগঞ্জের সাত খুনের নৃশংসতা, অপরাধের ষড়যন্ত্রের ঘৃণ্যতা বিচার করে আদালত ২৬ জনকে ফাঁসির রায় দিয়েছেন। আমার মনে হয় জনগণ এই রায়ে সন্তুষ্ট হবে এবং এই ঘৃণ্য অপরাধে যে ভীতির সৃষ্টি হয়েছিল সেই ভীতি দূর হবে।

সোমবার নারায়ণগঞ্জের আদালত রায় ঘোষণার পর দুপুরে সচিবালয়ে মন্ত্রী সাংবাদিকদের এ কথা বলেন। সাত খুনের মামলায় সাবেক কাউন্সিলর নূর হোসেন ও সাবেক তিন র‌্যাব কর্মকর্তাসহ ২৬ আসামির ফাঁসির রায় দিয়েছে আদালত। এ মামলার ৩৫ আসামির মধ‌্যে বাকি নয়জনকে দেওয়া হয়েছে বিভিন্ন মেয়াদের কারাদণ্ড।

কোনো মামলায় ফাঁসির আদেশ হলে অনুমোদনের জন্য সাত দিনের মধ্যে রায়ের নথি হাইকোর্ট বিভাগে পাঠানোর বাধ্যবাধকতা রয়েছে বলে জানান আইনমন্ত্রী।

তিনি বলেন, হাইকোর্ট ডিভিশন দণ্ড বহাল রাখলে আপিল বিভাগে আপিল করার সুযোগ থাকবে। সেই প্রক্রিয়া শেষ হলে রায় কার্যকর হবে।

মন্ত্রী বলেন, এই অপরাধের নৃশংতায় যারা জড়িত... বিজ্ঞ আদালত সাক্ষ‌্য-প্রমাণে তা পেয়েছেন… যদি অপরাধ হিসেবে হত্যাকাণ্ড প্রমাণিত হয় তাহলে কিন্তু ফাঁসি দেওয়াটা হচ্ছে দ্য ফার্স্ট পানিশমেন্ট। মিটিগেশন বা অন্যান্য কারণ দেখানো হলে তাহলে এটাকে যাবজ্জীবন দেওয়া যায়। সেই ক্ষেত্রে বিজ্ঞ আদালত এই অপরাধের নৃশংসতা, এই অপরাধের ষড়যন্ত্রের যে ঘৃণ্যতা- এসব বিচার করে ২৬ জনকে ফাঁসির রায় দিয়েছেন।

সাত খুনের ঘটনায় দণ্ডিত ৩৫ জনের মধ‌্যে ২৫ জনই আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস‌্য। মামলার নথিতে বলা হয়, এলাকায় আধিপত্য নিয়ে বিরোধ থেকে কাউন্সিলর নজরুল ইসলামকে হত্যার পরিকল্পনা করেন আরেক কাউন্সিলর নূর হোসেন। আর্থিক লেনদেনের মাধ্যমে র‌্যাব সদস্যদের দিয়ে ওই হত্যাকাণ্ড ঘটানো হয়।

এ বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করলে আনিসুল হক বলেন, যেই অপরাধ করুন, তাকে বিচারের আওতায় এনে তার সুষ্ঠু বিচার করাই হচ্ছে রাষ্ট্রের দায়িত্ব, আমার মনে হয় আমরা সেই দায়িত্ব পালন করতে পেরেছি।

আপনাদের একটা জিনিস মনে রাখতে হবে- এই দেশে জাতির পিতাকে হত্যা করার পরে ২১ বছর মামলার এজহার কেউ করেনি, সেই জায়গা থেকে আজকের বাংলাদেশ যেখানে এসেছে নিশ্চয়ই আপনারা স্বীকার করবেন এখানে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা হয়েছে।

আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীতে কাঠামোগত পরিবর্তন দরকার কি না- এমন প্রশ্নে আনিসুল বলেন, এসব বাহিনী স্ব স্ব মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে আছেন, এটা তাদের বিবেচনার বিষয়।

Jamunanews24.com/sm/ 16 janu. 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 13:55:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 13:55:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43122/-
নাটোরে বিসিএস সাধারণ শিক্ষা সমিতির মতবিনিময় http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43121/- যমুনা নিউজ: বেসরকারি কলেজ জাতীয়করণের ক্ষেত্রে জাতীয় শিক্ষানীতির আলোকে স্বতন্ত্র বিধিমালা প্রণয়নের দাবিতে  সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিমিয় করেছেন বিসিএস সাধারণ শিক্ষা সমিতির নাটোর জেলা ইউনিট।

সোমবার সকালে কেন্দ্রিয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে  নবাব সিরাজ-উদ্-দৌল্লা সরকারি কলেজের সম্মেলন কক্ষে এ মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।

মতবিনিময় সভায় যে সকল দাবি জানানো হয়- জাতীয় শিক্ষানীতির আলোকে সংশ্লিষ্ট কলেজ শিক্ষকদের ক্যাডার বহির্ভূত রেখে নিয়োগ , পদায়ন, জ্যেষ্ঠতা, পদোন্নতি, পরিচালনা ও চাকরির  জন্য স্বতন্ত্র বিধিমালা প্রণয়ন।

কলেজ বিসিএস শিক্ষক সমিতির সহ-সভাপতি ফরহাদ হোসেনের সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন- সমিতির কলেজ ইউনিট সাধরণ সম্পাদক কে এম আলমগীর হোসেন,  সদস্য তরিকুল ইসলাম প্রমুখ।

jamunanews24.com/shanto/rana/16 january 2017
যমুনা নিউজ: বেসরকারি কলেজ জাতীয়করণের ক্ষেত্রে জাতীয় শিক্ষানীতির আলোকে স্বতন্ত্র বিধিমালা প্রণয়নের দাবিতে  সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিমিয় করেছেন বিসিএস সাধারণ শিক্ষা সমিতির নাটোর জেলা ইউনিট।

সোমবার সকালে কেন্দ্রিয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে  নবাব সিরাজ-উদ্-দৌল্লা সরকারি কলেজের সম্মেলন কক্ষে এ মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।

মতবিনিময় সভায় যে সকল দাবি জানানো হয়- জাতীয় শিক্ষানীতির আলোকে সংশ্লিষ্ট কলেজ শিক্ষকদের ক্যাডার বহির্ভূত রেখে নিয়োগ , পদায়ন, জ্যেষ্ঠতা, পদোন্নতি, পরিচালনা ও চাকরির  জন্য স্বতন্ত্র বিধিমালা প্রণয়ন।

কলেজ বিসিএস শিক্ষক সমিতির সহ-সভাপতি ফরহাদ হোসেনের সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন- সমিতির কলেজ ইউনিট সাধরণ সম্পাদক কে এম আলমগীর হোসেন,  সদস্য তরিকুল ইসলাম প্রমুখ।

jamunanews24.com/shanto/rana/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 13:52:26 BDT Mon, 16 Jan 2017 13:52:26 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43121/-
এমপি রানাকে আ.লীগ থেকে বহিষ্কার http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43120/- যমুনা নিউজ: টাঙ্গাইল-৩ ( ঘাটাইল ) আসনের সংসদ সদস্য আমানুর রহমান খান রানা ও তার তিন ভাইকে দল থেকে বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নিয়েছে জেলা আওয়ামী লীগ।

জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ফজলুর রহমান খানের সভাপতিত্বে আজ সোমবার জরুরি সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

সভা শেষে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জোয়াহেরুল ইসলাম জানান, মুক্তিযোদ্ধা ফারুক আহমেদ হত্যায় রানা ও তার ভাইদের নামে অভিযোগপত্র দেয়া হয়েছে। এ ছাড়া কারাগারে আটক অবস্থায় রানা ছাত্রলীগ নেতা আবু সাঈদকে হত্যার নির্দেশ দিয়েছেন। তাই খুনি চক্রের বিরুদ্ধে এ ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।

জেলা শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক সাইফুজ্জামান সোহেল জানান, সভার কার্যবিবরণী কেন্দ্রে অনুমোদনের জন্য পাঠানো হবে।

রানার তিন ভাই হলেন- শহর আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সহিদুর রহমান খান (মুক্তি), ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক সহসভাপতি সানিয়াত খান (বাপ্পা) ও ব্যবসায়ী নেতা জাহিদুর রহমান খান (কাকন)।

jamunanews24.com/sa/sm/16 Jan 2017
যমুনা নিউজ: টাঙ্গাইল-৩ ( ঘাটাইল ) আসনের সংসদ সদস্য আমানুর রহমান খান রানা ও তার তিন ভাইকে দল থেকে বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নিয়েছে জেলা আওয়ামী লীগ।

জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ফজলুর রহমান খানের সভাপতিত্বে আজ সোমবার জরুরি সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

সভা শেষে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জোয়াহেরুল ইসলাম জানান, মুক্তিযোদ্ধা ফারুক আহমেদ হত্যায় রানা ও তার ভাইদের নামে অভিযোগপত্র দেয়া হয়েছে। এ ছাড়া কারাগারে আটক অবস্থায় রানা ছাত্রলীগ নেতা আবু সাঈদকে হত্যার নির্দেশ দিয়েছেন। তাই খুনি চক্রের বিরুদ্ধে এ ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।

জেলা শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক সাইফুজ্জামান সোহেল জানান, সভার কার্যবিবরণী কেন্দ্রে অনুমোদনের জন্য পাঠানো হবে।

রানার তিন ভাই হলেন- শহর আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সহিদুর রহমান খান (মুক্তি), ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক সহসভাপতি সানিয়াত খান (বাপ্পা) ও ব্যবসায়ী নেতা জাহিদুর রহমান খান (কাকন)।

jamunanews24.com/sa/sm/16 Jan 2017
]]>
Mon, 16 Jan 2017 13:34:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 13:34:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43120/-
রাজধানীতে ইয়াবাসহ একজন গ্রেফতার http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43119/- যমুনা নিউজ: রাজধানীর তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল থানা এলাকা থেকে ইয়াবাসহ মো. হাসান (১৯) নামে এক মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

এ সময় তার কাছ থেকে ২০০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। ডিএমপির ‘মাদকদ্রব্য উদ্ধার ও প্রতিরোধ’ বিষয়ক একটি বিশেষ টিম তাকে গ্রেফতার করে।

গ্রেফতারকৃত হাসানের বাসা শিল্পাঞ্চল থানার পূর্ব নাখাল পাড়া এলাকায়। তার বিরুদ্ধে শিল্পাঞ্চল থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

jamunanews24.com/hasib/anis/manik/ 16 January 2017
যমুনা নিউজ: রাজধানীর তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল থানা এলাকা থেকে ইয়াবাসহ মো. হাসান (১৯) নামে এক মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

এ সময় তার কাছ থেকে ২০০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। ডিএমপির ‘মাদকদ্রব্য উদ্ধার ও প্রতিরোধ’ বিষয়ক একটি বিশেষ টিম তাকে গ্রেফতার করে।

গ্রেফতারকৃত হাসানের বাসা শিল্পাঞ্চল থানার পূর্ব নাখাল পাড়া এলাকায়। তার বিরুদ্ধে শিল্পাঞ্চল থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

jamunanews24.com/hasib/anis/manik/ 16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 13:33:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 13:33:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43119/-
নূর হোসেনের উত্থান-পতন http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43118/- যমুনা নিউজ: বাংলায় একটি প্রবাদ আছে, হাতে ক্ষমতা থাকলে সাত খুন মাফ। আলোচিত-সমালোচিত নূর হোসেন এই প্রবাদকে বাস্তবে রূপ দিয়ে ফেলেছিলেন। কিন্তু শেষ রক্ষা তার হলো না। অবশেষে আলোচিত এই সাত খুনের মামলায় তাকে ফাঁসির দণ্ড মাথা পেতে নিতে হলো। মাদক ব্যবসা, অস্ত্র ব্যবসা, চাঁদাবাজিসহ এমন কোনো অপরাধ ছিল না যা তিনি করতেন না। আর এর প্রতিবাদ করতে গেলে আরও ভয়ঙ্কর হয়ে উঠতেন নূর হোসেন।

জীবনের প্রথম দিকে নূর হোসেন ছিলেন একজন ট্রাক ড্রাইভার। নব্বই এর দশকের শেষ দিকে শ্রমিক ইউনিয়নের মাধ্যমে রাজনীতিতে আগমন তার। যোগ দেন জাতীয় পার্টিতে। ১৯৯১ সালের জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপির প্রার্থীর হয়ে কাজ করে হয়ে যান বিএনপি নেতা।

এরপর থেকে তার শুধুই উত্থান। ১৯৯২ সালে সিদ্ধিরগঞ্জ ইউপি চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী হন এবং জিতেও যান। তার প্রভাব বিস্তৃত হতে থাকে পুরো সিদ্ধিরগঞ্জে। ১৯৯৬ সালে আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর বিএনপি প্রার্থী হিসেবে পরবর্তী ইউপি নির্বাচনেও চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী হয় নূর হোসেন। আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে শামীম ওসমান প্রার্থী দেন নজরুলকে। সেই থেকেই নূর হোসেন এবং নজরুল ইসলামের দন্দ্বের শুরু।

কিন্তু সেই নির্বাচনে নূর হোসেন জয়ী হয়ে হাত মেলান শামীম ওসমানের সঙ্গে। হয়ে যান শামীম ওসমানের ঘনিষ্ঠ সহযোগী।দিনে দিনে হয়ে ওঠেন শীর্ষ সন্ত্রাসী । চলাফেরা করতেন ১৫-২০ টি গাড়ির বিশাল বহর নিয়ে।নিজের নামে ছিল লাইসেন্স করা অস্ত্র। ছিল অবৈধ অস্ত্রের বিশাল ভান্ডার।

১৯৯১ থেকে ২০০০ সাল পর্যন্ত প্রায় এক দশক সিদ্ধিরগঞ্জ এলাকার অপরাধ জগতের নিয়ন্ত্রক ছিলেন নূর হোসেন। ২০০১ সালের সংসদ নির্বাচনের পরই গাঢাকা দেন।পালিয়ে যান ভারতে।২০০৭ সালের ১২ মার্চ ইন্টারপোল তার বিরুদ্ধে রেড ওয়ারেন্ট জারি করে । মহাজোট সরকার ক্ষমতায় আসার পর ২০০৯ সালের ২০ জুন নূর হোসেন আবার দেশে ফিরেন।

সর্বত্র আবারও ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করেন।বরাবরই তার প্রধান রাজনৈতিক প্রতিপক্ষ ছিলেন কাউন্সিলর নজরুল ইসলাম। পথের কাটা নজরুল ইসলামকে সরাতে হাত মেলান র্যা বের কর্মকর্তা তারেক সাঈদ মোহাম্মদের সঙ্গে।২০১৪ সালের ২৭ এপ্রিল গুম করে ফেলেন কাউন্সিলর নজরুল ইসলাম সহ সাত জনকে।

এ ঘটনার তিন দিন পর অপহরণ হওয়া সাতজনের মরদেহ শীতলক্ষ্যা নদী থেকে উদ্ধার করা হয়। ওই ঘটনায় প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলাম ও তার ৪ সহকর্মী হত্যার ঘটনায় তার স্ত্রী সেলিনা ইসলাম বিউটি বাদী হয়ে ফতুল্লা থানায় একটি এবং সিনিয়র আইনজীবী চন্দন সরকার ও তার গাড়ির চালক ইব্রাহিম হত্যার ঘটনায় জামাতা বিজয় কুমার পাল বাদি হয়ে একই থানায় আরেকটি মামলা দায়ের করেন।

এরপরেই দেশ জুড়ে আলোচনায় আসেন নূর হোসেন।এক পর্যায়ে প্রাণে বাঁচতে পালিয়ে যান ভারতে। ২০১৬ সালের ১২ নভেম্বর ভারত থেকে নূর হোসেনকে দেশে ফিরিয়ে আনা হয়।

দীর্ঘ দিন সাক্ষ্যগ্রহণ, উভয় পক্ষের যুক্তিতর্ক শেষে ২০১৬ সালের ৩০ নভেম্বর মামলার কার্যক্রম শেষ হয়। আজ রায় ঘোষণা হল চাঞ্চল্যকর সেই সাতখুন মামলার।

ফাসির দণ্ড পেয়েছেন ক্ষমতাধর নূর হোসেন। আজ তার চোখে দেখা গেছে জল।

jamunanews24.com/hasib/anis/manik/ 16 January 2017
যমুনা নিউজ: বাংলায় একটি প্রবাদ আছে, হাতে ক্ষমতা থাকলে সাত খুন মাফ। আলোচিত-সমালোচিত নূর হোসেন এই প্রবাদকে বাস্তবে রূপ দিয়ে ফেলেছিলেন। কিন্তু শেষ রক্ষা তার হলো না। অবশেষে আলোচিত এই সাত খুনের মামলায় তাকে ফাঁসির দণ্ড মাথা পেতে নিতে হলো। মাদক ব্যবসা, অস্ত্র ব্যবসা, চাঁদাবাজিসহ এমন কোনো অপরাধ ছিল না যা তিনি করতেন না। আর এর প্রতিবাদ করতে গেলে আরও ভয়ঙ্কর হয়ে উঠতেন নূর হোসেন।

জীবনের প্রথম দিকে নূর হোসেন ছিলেন একজন ট্রাক ড্রাইভার। নব্বই এর দশকের শেষ দিকে শ্রমিক ইউনিয়নের মাধ্যমে রাজনীতিতে আগমন তার। যোগ দেন জাতীয় পার্টিতে। ১৯৯১ সালের জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপির প্রার্থীর হয়ে কাজ করে হয়ে যান বিএনপি নেতা।

এরপর থেকে তার শুধুই উত্থান। ১৯৯২ সালে সিদ্ধিরগঞ্জ ইউপি চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী হন এবং জিতেও যান। তার প্রভাব বিস্তৃত হতে থাকে পুরো সিদ্ধিরগঞ্জে। ১৯৯৬ সালে আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর বিএনপি প্রার্থী হিসেবে পরবর্তী ইউপি নির্বাচনেও চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী হয় নূর হোসেন। আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে শামীম ওসমান প্রার্থী দেন নজরুলকে। সেই থেকেই নূর হোসেন এবং নজরুল ইসলামের দন্দ্বের শুরু।

কিন্তু সেই নির্বাচনে নূর হোসেন জয়ী হয়ে হাত মেলান শামীম ওসমানের সঙ্গে। হয়ে যান শামীম ওসমানের ঘনিষ্ঠ সহযোগী।দিনে দিনে হয়ে ওঠেন শীর্ষ সন্ত্রাসী । চলাফেরা করতেন ১৫-২০ টি গাড়ির বিশাল বহর নিয়ে।নিজের নামে ছিল লাইসেন্স করা অস্ত্র। ছিল অবৈধ অস্ত্রের বিশাল ভান্ডার।

১৯৯১ থেকে ২০০০ সাল পর্যন্ত প্রায় এক দশক সিদ্ধিরগঞ্জ এলাকার অপরাধ জগতের নিয়ন্ত্রক ছিলেন নূর হোসেন। ২০০১ সালের সংসদ নির্বাচনের পরই গাঢাকা দেন।পালিয়ে যান ভারতে।২০০৭ সালের ১২ মার্চ ইন্টারপোল তার বিরুদ্ধে রেড ওয়ারেন্ট জারি করে । মহাজোট সরকার ক্ষমতায় আসার পর ২০০৯ সালের ২০ জুন নূর হোসেন আবার দেশে ফিরেন।

সর্বত্র আবারও ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করেন।বরাবরই তার প্রধান রাজনৈতিক প্রতিপক্ষ ছিলেন কাউন্সিলর নজরুল ইসলাম। পথের কাটা নজরুল ইসলামকে সরাতে হাত মেলান র্যা বের কর্মকর্তা তারেক সাঈদ মোহাম্মদের সঙ্গে।২০১৪ সালের ২৭ এপ্রিল গুম করে ফেলেন কাউন্সিলর নজরুল ইসলাম সহ সাত জনকে।

এ ঘটনার তিন দিন পর অপহরণ হওয়া সাতজনের মরদেহ শীতলক্ষ্যা নদী থেকে উদ্ধার করা হয়। ওই ঘটনায় প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলাম ও তার ৪ সহকর্মী হত্যার ঘটনায় তার স্ত্রী সেলিনা ইসলাম বিউটি বাদী হয়ে ফতুল্লা থানায় একটি এবং সিনিয়র আইনজীবী চন্দন সরকার ও তার গাড়ির চালক ইব্রাহিম হত্যার ঘটনায় জামাতা বিজয় কুমার পাল বাদি হয়ে একই থানায় আরেকটি মামলা দায়ের করেন।

এরপরেই দেশ জুড়ে আলোচনায় আসেন নূর হোসেন।এক পর্যায়ে প্রাণে বাঁচতে পালিয়ে যান ভারতে। ২০১৬ সালের ১২ নভেম্বর ভারত থেকে নূর হোসেনকে দেশে ফিরিয়ে আনা হয়।

দীর্ঘ দিন সাক্ষ্যগ্রহণ, উভয় পক্ষের যুক্তিতর্ক শেষে ২০১৬ সালের ৩০ নভেম্বর মামলার কার্যক্রম শেষ হয়। আজ রায় ঘোষণা হল চাঞ্চল্যকর সেই সাতখুন মামলার।

ফাসির দণ্ড পেয়েছেন ক্ষমতাধর নূর হোসেন। আজ তার চোখে দেখা গেছে জল।

jamunanews24.com/hasib/anis/manik/ 16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 13:30:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 13:30:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43118/-
তীব্র শীতে চুয়াডাঙ্গায় ৪জনের মৃত্যু http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43117/- যমুনা নিউজ: হিমালয় ছুঁয়ে আসা ঠাণ্ডা বাতাসে শীতের তীব্রতা ছড়িয়ে পড়েছে গোটা দেশে। কুয়াশায় বিপর্যস্ত উত্তরাঞ্চলসহ প্রায় সারাদেশ। ঠাণ্ডাজনিত কারণে চুয়াডাঙ্গার জীবননগরে চারজনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে।

কয়েকটি জেলায় গতকালের তাপমাত্রা ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াসের আশপাশেই উঠা নামা করেছে। বিকেলে কি সন্ধ্যা বুঝতে হলে ঘড়ির কাঁটাই ভরসা। কারণ দুপুরেও নেই সূর্যের দেখা। ঘন কুয়াশায় ডেকে আছে গোটা এলাকা।

রাত যতই বাড়ছে ততই শীত তীব্র থেকে তীব্র হচ্ছে। উত্তরাঞ্চলের খেটে খাওয়া মানুষ গরম কাপড়ের অভাবে কনকনে শীতের মধ্যেই দিন কাটাচ্ছেন। নারী, শিশু, বৃদ্ধরা অসুস্থ হচ্ছেন দ্রুত।

আবহাওয়া দফতর জানায়, মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গল ও চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে গতকাল দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ৬ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এছাড়াম, খাগড়াছড়ির দীঘিনালায় ৬ দশমিক ৭, নওগাঁর বদলগাছিতে ৬ দশমিক ৮, নীলফামারীর ডিমলায় ৬ দশমিক ৬ এবং পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায় ৬ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়।

জীবননগর থেকে আমাদের প্রতিনিধি জানান, উপজেলায় তীব্র শীতে ৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। শনিবার রাত ৯ টার সময় উপজেলার উথলী গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা নজরুল ইসলাম জুড়োন (৬২) ও গঙ্গাদাসপুর গ্রামের ইসলাম উদ্দিন কবিরাজ (৬৫) এবং গতকাল রোববার সকালে ধোপাখালী গ্রামের নজরুল ইসলাম (৭০) ও তেঁতুলিয়া গ্রামের ছমিরন নেছা (৭৫) শীতজনিত রোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন বলে তাদের পারিবারিক সূত্র জানিয়েছে।

শুক্রবার থেকে শুরু হওয়া শৈত্যপ্রবাহে উপজেলার জনজীবন একেবারে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে। শৈত্যপ্রবাহের প্রভাবে গত ৩ দিনে জীবননগরের আকাশে খুব একটা সূর্যের দেখা মেলেনি। আর এ কারণে ক্রমেই বাড়ছে শীতের প্রকোপ। উপজেলায় মাথাব্যথা, কোল্ড ডায়রিয়া, নিউমোনিয়া, শ্বাসনালীর প্রদাহ ও সর্দি-জ্বরসহ বিভিন্ন শীতজনিত রোগের প্রাদুর্ভাব দেখা দিয়েছে। কনকনে শীতে সন্ধ্যায় বাজার-ঘাট প্রায় জনশূন্য হয়ে পড়ছে। জরুরি প্রয়োজন ছাড়া কেউ বাড়ির বাইরে যাচ্ছে না।

Jamunanews24.com/tofazzal/sm/16 January 2017
যমুনা নিউজ: হিমালয় ছুঁয়ে আসা ঠাণ্ডা বাতাসে শীতের তীব্রতা ছড়িয়ে পড়েছে গোটা দেশে। কুয়াশায় বিপর্যস্ত উত্তরাঞ্চলসহ প্রায় সারাদেশ। ঠাণ্ডাজনিত কারণে চুয়াডাঙ্গার জীবননগরে চারজনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে।

কয়েকটি জেলায় গতকালের তাপমাত্রা ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াসের আশপাশেই উঠা নামা করেছে। বিকেলে কি সন্ধ্যা বুঝতে হলে ঘড়ির কাঁটাই ভরসা। কারণ দুপুরেও নেই সূর্যের দেখা। ঘন কুয়াশায় ডেকে আছে গোটা এলাকা।

রাত যতই বাড়ছে ততই শীত তীব্র থেকে তীব্র হচ্ছে। উত্তরাঞ্চলের খেটে খাওয়া মানুষ গরম কাপড়ের অভাবে কনকনে শীতের মধ্যেই দিন কাটাচ্ছেন। নারী, শিশু, বৃদ্ধরা অসুস্থ হচ্ছেন দ্রুত।

আবহাওয়া দফতর জানায়, মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গল ও চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে গতকাল দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ৬ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এছাড়াম, খাগড়াছড়ির দীঘিনালায় ৬ দশমিক ৭, নওগাঁর বদলগাছিতে ৬ দশমিক ৮, নীলফামারীর ডিমলায় ৬ দশমিক ৬ এবং পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায় ৬ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়।

জীবননগর থেকে আমাদের প্রতিনিধি জানান, উপজেলায় তীব্র শীতে ৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। শনিবার রাত ৯ টার সময় উপজেলার উথলী গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা নজরুল ইসলাম জুড়োন (৬২) ও গঙ্গাদাসপুর গ্রামের ইসলাম উদ্দিন কবিরাজ (৬৫) এবং গতকাল রোববার সকালে ধোপাখালী গ্রামের নজরুল ইসলাম (৭০) ও তেঁতুলিয়া গ্রামের ছমিরন নেছা (৭৫) শীতজনিত রোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন বলে তাদের পারিবারিক সূত্র জানিয়েছে।

শুক্রবার থেকে শুরু হওয়া শৈত্যপ্রবাহে উপজেলার জনজীবন একেবারে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে। শৈত্যপ্রবাহের প্রভাবে গত ৩ দিনে জীবননগরের আকাশে খুব একটা সূর্যের দেখা মেলেনি। আর এ কারণে ক্রমেই বাড়ছে শীতের প্রকোপ। উপজেলায় মাথাব্যথা, কোল্ড ডায়রিয়া, নিউমোনিয়া, শ্বাসনালীর প্রদাহ ও সর্দি-জ্বরসহ বিভিন্ন শীতজনিত রোগের প্রাদুর্ভাব দেখা দিয়েছে। কনকনে শীতে সন্ধ্যায় বাজার-ঘাট প্রায় জনশূন্য হয়ে পড়ছে। জরুরি প্রয়োজন ছাড়া কেউ বাড়ির বাইরে যাচ্ছে না।

Jamunanews24.com/tofazzal/sm/16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 13:28:58 BDT Mon, 16 Jan 2017 13:28:58 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43117/-
যে ২৬ জনের মৃত্যুদণ্ড http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43116/- যমুনা নিউজ: নারায়ণগঞ্জের আলোচিত সাত খুন মামলার ৩৫ আসামির মধ্যে ২৬ জনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। বাকি ৯ জনকে দেয়া হয় বিভিন্ন মেয়াদে সাজা।

সোমবার সকাল ১০টা ৫ মিনিটে নারায়ণগঞ্জ জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক সৈয়দ এনায়েত হোসেন এ রায় দেন।

মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামিরা হলেন, নূর হোসেন, লেফটেন্যান্ট কর্নেল তারেক সাঈদ মোহাম্মদ, মেজর আরিফ হোসেন, লেফটেন্যান্ট কমান্ডার মাসুদ রানা (এমএম রানা), হাবিলদার এমদাদুল হক, আরওজি-১ আরিফ হোসেন, ল্যান্সনায়েক হীরা মিয়া, ল্যান্সনায়েক বেলাল হোসেন, সিপাহী আবু তৈয়ব, কনস্টেবল মো: শিহাব উদ্দিন, এসআই পুর্নেন্দ বালা, র্যা বের সদস্য আসাদুজ্জামান নূর, আলী মোহাম্মদ, মিজানুর রহমান দিপু, রহম আলী, আবুল বাশার, নূর হোসেনের সহযোগী মোর্তুজা জামান চার্চিল, সেলিম, সানাউল্লাহ সানা, শাহজাহান, জামালউদ্দিন, সৈনিক আবদুল আলী, সৈনিক মহিউদ্দিন মুন্সী, আলামিন শরিফ, তাজুল ইসলাম, এনামুল কবীর।

২০১৪ সালের ২৭ এপ্রিল নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লায় খান সাহেব ওসমান আলী জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামের সামনে থেকে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের ২নং ওয়ার্ডের তৎকালীন কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র-২ নজরুল ইসলাম, তার বন্ধু মনিরুজ্জামান স্বপন, তাজুল ইসলাম, লিটন, নজরুলের গাড়িচালক জাহাঙ্গীর আলম, আইনজীবী চন্দন কুমার সরকার ও তার গাড়িচালক ইব্রাহিম অপহৃত হন। ২৮ এপ্রিল ফতুল্লা মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন নজরুল ইসলামের স্ত্রী। ওই মামলায় সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি নূর হোসেনকে প্রধান করে ৬জনকে আসামি করা হয়। এছাড়া আইনজীবী চন্দন সরকারের মেয়ের জামাই বিজয় কুমার পাল বাদী হয়ে নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লা মডেল থানায় আরও একটি মামলা করেন। ৩০ এপ্রিল বিকেলে শীতলক্ষ্যা নদী থেকে ৬ জন এবং ১ মে সকালে একজনের লাশ উদ্ধার করা হয়। পরে স্বজনরা লাশগুলো শনাক্ত করেন।

Jamunanews24.com/tofazzal/anis/manik/ 16 Jan 2017
যমুনা নিউজ: নারায়ণগঞ্জের আলোচিত সাত খুন মামলার ৩৫ আসামির মধ্যে ২৬ জনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। বাকি ৯ জনকে দেয়া হয় বিভিন্ন মেয়াদে সাজা।

সোমবার সকাল ১০টা ৫ মিনিটে নারায়ণগঞ্জ জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক সৈয়দ এনায়েত হোসেন এ রায় দেন।

মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামিরা হলেন, নূর হোসেন, লেফটেন্যান্ট কর্নেল তারেক সাঈদ মোহাম্মদ, মেজর আরিফ হোসেন, লেফটেন্যান্ট কমান্ডার মাসুদ রানা (এমএম রানা), হাবিলদার এমদাদুল হক, আরওজি-১ আরিফ হোসেন, ল্যান্সনায়েক হীরা মিয়া, ল্যান্সনায়েক বেলাল হোসেন, সিপাহী আবু তৈয়ব, কনস্টেবল মো: শিহাব উদ্দিন, এসআই পুর্নেন্দ বালা, র্যা বের সদস্য আসাদুজ্জামান নূর, আলী মোহাম্মদ, মিজানুর রহমান দিপু, রহম আলী, আবুল বাশার, নূর হোসেনের সহযোগী মোর্তুজা জামান চার্চিল, সেলিম, সানাউল্লাহ সানা, শাহজাহান, জামালউদ্দিন, সৈনিক আবদুল আলী, সৈনিক মহিউদ্দিন মুন্সী, আলামিন শরিফ, তাজুল ইসলাম, এনামুল কবীর।

২০১৪ সালের ২৭ এপ্রিল নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লায় খান সাহেব ওসমান আলী জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামের সামনে থেকে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের ২নং ওয়ার্ডের তৎকালীন কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র-২ নজরুল ইসলাম, তার বন্ধু মনিরুজ্জামান স্বপন, তাজুল ইসলাম, লিটন, নজরুলের গাড়িচালক জাহাঙ্গীর আলম, আইনজীবী চন্দন কুমার সরকার ও তার গাড়িচালক ইব্রাহিম অপহৃত হন। ২৮ এপ্রিল ফতুল্লা মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন নজরুল ইসলামের স্ত্রী। ওই মামলায় সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি নূর হোসেনকে প্রধান করে ৬জনকে আসামি করা হয়। এছাড়া আইনজীবী চন্দন সরকারের মেয়ের জামাই বিজয় কুমার পাল বাদী হয়ে নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লা মডেল থানায় আরও একটি মামলা করেন। ৩০ এপ্রিল বিকেলে শীতলক্ষ্যা নদী থেকে ৬ জন এবং ১ মে সকালে একজনের লাশ উদ্ধার করা হয়। পরে স্বজনরা লাশগুলো শনাক্ত করেন।

Jamunanews24.com/tofazzal/anis/manik/ 16 Jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 13:19:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 13:19:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43116/-
আইনের চোখে সবাই সমান http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43115/- যমুনা নিউজ: সাত খুনের মামলায় রাষ্ট্রপক্ষে মামলা পরিচালনাকারী ওয়াজেদ আলী খোকন বলেছেন, প্রমাণ হলো আইনের চোখে সবাই সমান। কে এলিট ফোর্সের সদস্য, কে জনপ্রতিনিধি—আদালতের কাছে এটা বিবেচ্য নয়। আদালতের রায়ে তাই প্রমাণ হয়ে গেল।

রায় ঘোষণার পর অন্যতম প্রধান অভিযুক্ত নূর হোসেন এবং র‍্যাবের সাবেক কর্মকর্তা নির্বিকার ছিলেন। এ বিষয়ে প্রতিক্রিয়া জানতে চাইলে ওয়াজেদ আলী খোকন কথাগুলো বলেন।

আজ সোমবার আলোচিত এ মামলায় ২৬ জনের ফাঁসির রায় দেন আদালত।

পিপি বলেন, রায় ঘোষণার পর অভিযুক্ত নূর হোসেন ও তারেক সাঈদের ভাবলেশহীন আচরণ প্রমাণ করে তারাই খুনি। কেবল পেশাদার খুনিরাই খুন করার পর হাসি-ঠাট্টা-তামাশা করতে পারে।

ওয়াজেদ আলী বলেন, এ রায়ে আমরা খুশি। রাষ্ট্রপক্ষ সব আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণ করতে সক্ষম হয়েছে। তাই আদালত সব আসামিকেই সাজা দিয়েছেন। এর মধ্যে ২৬ জনের ফাঁসি এবং বাকি নয়জনের বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড হয়েছে।

তিনি বলেন, যে নয়জনের ফাঁসি হয়নি আদালতের পূর্ণাঙ্গ রায় পাওয়ার পর তা দেখে উচ্চ আদালতে প্রয়োজনে আপিল করা হবে।

ওয়াজেদ আলী বলেন, এই রায় প্রমাণ করল আইনের চোখে সবাই সমান। কে এলিট ফোর্সের সদস্য, কে জনপ্রতিনিধি—আদালতের কাছে এটা বিবেচ্য নয়। আদালতের রায়ে তাই প্রমাণ হয়ে গেল।

এক প্রশ্নের জবাবে ওয়াজেদ আলী বলেন, অভিযুক্ত নূর হোসেন তার প্রতিপক্ষ কাউন্সিলর নজরুল ইসলামকে দুনিয়া থেকে সরিয়ে দেয়ার জন্য র‍্যাবের তারেক সাঈদসহ অন্যদের সহযোগিতা নেন। র‍্যাবের এসব সদস্য অর্থের বিনিময়ে নূর হোসেনের সহযোগীদের নিয়ে এই নৃশংস হত্যাকাণ্ড ঘটান।

Jamunanews24.com/sm/ 16 janu. 2017
যমুনা নিউজ: সাত খুনের মামলায় রাষ্ট্রপক্ষে মামলা পরিচালনাকারী ওয়াজেদ আলী খোকন বলেছেন, প্রমাণ হলো আইনের চোখে সবাই সমান। কে এলিট ফোর্সের সদস্য, কে জনপ্রতিনিধি—আদালতের কাছে এটা বিবেচ্য নয়। আদালতের রায়ে তাই প্রমাণ হয়ে গেল।

রায় ঘোষণার পর অন্যতম প্রধান অভিযুক্ত নূর হোসেন এবং র‍্যাবের সাবেক কর্মকর্তা নির্বিকার ছিলেন। এ বিষয়ে প্রতিক্রিয়া জানতে চাইলে ওয়াজেদ আলী খোকন কথাগুলো বলেন।

আজ সোমবার আলোচিত এ মামলায় ২৬ জনের ফাঁসির রায় দেন আদালত।

পিপি বলেন, রায় ঘোষণার পর অভিযুক্ত নূর হোসেন ও তারেক সাঈদের ভাবলেশহীন আচরণ প্রমাণ করে তারাই খুনি। কেবল পেশাদার খুনিরাই খুন করার পর হাসি-ঠাট্টা-তামাশা করতে পারে।

ওয়াজেদ আলী বলেন, এ রায়ে আমরা খুশি। রাষ্ট্রপক্ষ সব আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণ করতে সক্ষম হয়েছে। তাই আদালত সব আসামিকেই সাজা দিয়েছেন। এর মধ্যে ২৬ জনের ফাঁসি এবং বাকি নয়জনের বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড হয়েছে।

তিনি বলেন, যে নয়জনের ফাঁসি হয়নি আদালতের পূর্ণাঙ্গ রায় পাওয়ার পর তা দেখে উচ্চ আদালতে প্রয়োজনে আপিল করা হবে।

ওয়াজেদ আলী বলেন, এই রায় প্রমাণ করল আইনের চোখে সবাই সমান। কে এলিট ফোর্সের সদস্য, কে জনপ্রতিনিধি—আদালতের কাছে এটা বিবেচ্য নয়। আদালতের রায়ে তাই প্রমাণ হয়ে গেল।

এক প্রশ্নের জবাবে ওয়াজেদ আলী বলেন, অভিযুক্ত নূর হোসেন তার প্রতিপক্ষ কাউন্সিলর নজরুল ইসলামকে দুনিয়া থেকে সরিয়ে দেয়ার জন্য র‍্যাবের তারেক সাঈদসহ অন্যদের সহযোগিতা নেন। র‍্যাবের এসব সদস্য অর্থের বিনিময়ে নূর হোসেনের সহযোগীদের নিয়ে এই নৃশংস হত্যাকাণ্ড ঘটান।

Jamunanews24.com/sm/ 16 janu. 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 13:17:49 BDT Mon, 16 Jan 2017 13:17:49 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43115/-
ইউএসটিসি শিক্ষার্থীদের ফের সড়ক অবরোধ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43114/- যমুনা নিউজ, চট্টগ্রাম ব্যুরো: চট্টগ্রাম বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইউএসটিসি) শিক্ষার্থীরা ফের  সড়ক অবরোধ করেছেন।

সোমবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে ফয়েজ লেক এলাকার জাকির হোসেন সড়ক অবরোধ করে রাখেন তারা। এ সময় তারা টায়ারে আগুন জালিয়ে প্রায় এক ঘণ্টা রাস্তা অবরোধ করে রাখেন।

এমবিবিএস শ্রেণির তিনটি ব্যাচের শিক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশনের কাজ এখনও সম্পন্ন না করায় আন্দোলন করছেন বলে জানিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা।

এ ব্যাপারে খুলশী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নিজাম উদ্দিন জানান, ছাত্ররা রাস্তা অবরোধ করেছিল। পুলিশ গিয়ে তাদের রাস্তা থেকে সরিয়ে দিয়েছে।

এর আগে গত ১১ জানুয়ারি একই ইস্যুতে সড়ক অবরোধ করে আন্দোলন করেন শিক্ষার্থীরা।

jamunanews24.com/jamil/rana/16 january 2017
যমুনা নিউজ, চট্টগ্রাম ব্যুরো: চট্টগ্রাম বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইউএসটিসি) শিক্ষার্থীরা ফের  সড়ক অবরোধ করেছেন।

সোমবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে ফয়েজ লেক এলাকার জাকির হোসেন সড়ক অবরোধ করে রাখেন তারা। এ সময় তারা টায়ারে আগুন জালিয়ে প্রায় এক ঘণ্টা রাস্তা অবরোধ করে রাখেন।

এমবিবিএস শ্রেণির তিনটি ব্যাচের শিক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশনের কাজ এখনও সম্পন্ন না করায় আন্দোলন করছেন বলে জানিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা।

এ ব্যাপারে খুলশী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নিজাম উদ্দিন জানান, ছাত্ররা রাস্তা অবরোধ করেছিল। পুলিশ গিয়ে তাদের রাস্তা থেকে সরিয়ে দিয়েছে।

এর আগে গত ১১ জানুয়ারি একই ইস্যুতে সড়ক অবরোধ করে আন্দোলন করেন শিক্ষার্থীরা।

jamunanews24.com/jamil/rana/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 13:15:14 BDT Mon, 16 Jan 2017 13:15:14 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43114/-
রণবীরই দীপিকার বয়ফ্রেন্ড:‌ ভিন http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43113/- যমুনা নিউজ: বলিউড তারকা রণবীর সিংকে দীপিকা পাড়ুকোনের প্রেমিক হিসেবেই পরিচয় দিলেন হলিউড অভিনেতা ভিন ডিজেল। মুখে স্বীকার না করলেও এতদিনে সবাই বুঝে গিয়েছে চুটিয়ে প্রেম করছেন দীপিকা-রণবীর সিং।

সেই কথাতেই সিলমোহর দিলেন এবার হলিউডে দীপিকার সহ-অভিনেতা ভিন ডিজেল। একটি সাক্ষাৎকারে রণবীরকে দীপিকার প্রেমিক বলে উল্লেখ করলেন তিনি। দীপিকার সঙ্গে ভারতে ছবির প্রচারে আসার পর একদিন রণবীরের সঙ্গে তিনজনে বেশ কিছুটা সময় কাটিয়েছেন বলেও জানিয়েছেন তিনি।

ভিন ডিজেলের সুগঠিত শরীর নিয়ে প্রশংসা করেছিলেন রণবীর। সেই প্রশংসার পরেই ভিন রণবীরকে জানান, এক সময় বাউন্সারের কাজ করতাম। পরে সুযোগ পাই সিনেমায়। এমন শরীর তো থাকবেই।

যাই হোক, সাক্ষাৎকারের এই অংশটি নিয়ে আলোচনা না হলেও, হচ্ছে কেবল একটি অংশ নিয়ে। যেখানে, রণবীরকে দীপিকার প্রেমিক বলেছেন ভিন।

jamunanews24.com/zobaida/16 january 2017
যমুনা নিউজ: বলিউড তারকা রণবীর সিংকে দীপিকা পাড়ুকোনের প্রেমিক হিসেবেই পরিচয় দিলেন হলিউড অভিনেতা ভিন ডিজেল। মুখে স্বীকার না করলেও এতদিনে সবাই বুঝে গিয়েছে চুটিয়ে প্রেম করছেন দীপিকা-রণবীর সিং।

সেই কথাতেই সিলমোহর দিলেন এবার হলিউডে দীপিকার সহ-অভিনেতা ভিন ডিজেল। একটি সাক্ষাৎকারে রণবীরকে দীপিকার প্রেমিক বলে উল্লেখ করলেন তিনি। দীপিকার সঙ্গে ভারতে ছবির প্রচারে আসার পর একদিন রণবীরের সঙ্গে তিনজনে বেশ কিছুটা সময় কাটিয়েছেন বলেও জানিয়েছেন তিনি।

ভিন ডিজেলের সুগঠিত শরীর নিয়ে প্রশংসা করেছিলেন রণবীর। সেই প্রশংসার পরেই ভিন রণবীরকে জানান, এক সময় বাউন্সারের কাজ করতাম। পরে সুযোগ পাই সিনেমায়। এমন শরীর তো থাকবেই।

যাই হোক, সাক্ষাৎকারের এই অংশটি নিয়ে আলোচনা না হলেও, হচ্ছে কেবল একটি অংশ নিয়ে। যেখানে, রণবীরকে দীপিকার প্রেমিক বলেছেন ভিন।

jamunanews24.com/zobaida/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 13:15:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 13:15:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43113/-
যে ৯ জনের কারাদণ্ড http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43112/- যমুনা নিউজ: নারায়ণগঞ্জের সাত খুন মামলার ৩৫ আসামির মধ্যে ২৬ জনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। বাকি ৯ আসামিকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দেয়া হয়।

সোমবার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক সৈয়দ এনায়েত হোসেন এ রায় দেন।

কারাদণ্ডপ্রাপ্ত ৯ আসামির মধ্যে ছয়জন আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর জিম্মায় আছেন। বাকি তিনজন পলাতক রয়েছেন।

এর মধ্যে করপোরাল রুহুল আমিনের ১০, এএসআই বজলুর রহমানের ৭,এএসআই আবুল কালাম আজাদের ১০,হাবিলদার নাসির উদ্দিনের ৭,সৈনিক নুরুজ্জামানের ১০ এবং কনস্টেবল বাবুল হাসানের ১০ বছর কারাদণ্ড হয়েছে।

পলাতক আসামিদের মধ্যে হাবিবুর রহমানের ১৭, কামাল হোসেনের ১০ ও মোখলেসুর রহমানের ১০ বছর কারাদণ্ড হয়েছে।

jamunanews24.com/sa/anis/manik/ 16 Jan 2017
যমুনা নিউজ: নারায়ণগঞ্জের সাত খুন মামলার ৩৫ আসামির মধ্যে ২৬ জনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। বাকি ৯ আসামিকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দেয়া হয়।

সোমবার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক সৈয়দ এনায়েত হোসেন এ রায় দেন।

কারাদণ্ডপ্রাপ্ত ৯ আসামির মধ্যে ছয়জন আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর জিম্মায় আছেন। বাকি তিনজন পলাতক রয়েছেন।

এর মধ্যে করপোরাল রুহুল আমিনের ১০, এএসআই বজলুর রহমানের ৭,এএসআই আবুল কালাম আজাদের ১০,হাবিলদার নাসির উদ্দিনের ৭,সৈনিক নুরুজ্জামানের ১০ এবং কনস্টেবল বাবুল হাসানের ১০ বছর কারাদণ্ড হয়েছে।

পলাতক আসামিদের মধ্যে হাবিবুর রহমানের ১৭, কামাল হোসেনের ১০ ও মোখলেসুর রহমানের ১০ বছর কারাদণ্ড হয়েছে।

jamunanews24.com/sa/anis/manik/ 16 Jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 13:14:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 13:14:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43112/-
তিন উইকেটরক্ষকের এক টেস্ট http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43111/-
স্পোর্টস ডেস্ক: অবাক হলেন নাকি? হওয়াটাই স্বাভাবিক। কথা কিন্তু সত্য। ওয়েলিংটন টেস্টে এমন চিত্রই দেখল ক্রিকেটবিশ্ব। এক না দুই না গুণে গুণে তিনজন ছিলেন উইকেটের পেছনে। তবে সেটা একসঙ্গে নয়, একজনের বদলে আরেকজন।

কথাগুলো বেশ রসালো মনে হলেও এর পেছনে জড়িয়ে আছে দুর্ভাগ্য। বোধ হয় নিয়তির নির্মম রূপটা দেখল বাংলাদেশ।

হ্যামস্ট্রিংয়ের চোটের কারণে মাত্র একটি ওয়ানডে খেললেও গোটা টি-টোয়েন্টি সিরিজে দর্শক হয়ে থাকতে হয় নিয়মিত উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিমকে। তার পরিবর্তে দলে জায়গা পান নুরুল হাসান সোহান।

এরপর ইনজুরি কাটিয়ে টেস্ট দলে ফেরেন মুশফিক। কিন্তু তাতেও ইনজুরির ছোবল। শুরু হয় হাতের ব্যথা। তৃতীয় দিন ব্যথা বেড়ে যাওয়ায় আর মাঠে নামানো হয়নি তাঁকে।

মুশফিকের জায়গায় কিপিং করেছিলেন ইমরুল। প্রায় দেড়শ ওভার উইকেটের পেছনে দায়িত্ব পালন করেন এই টাইগার ওপেনার। তালুবন্দী করেন ৫টি ক্যাচও। বদলী কিপার হিসেবে গড়েন বিশ্বরেকর্ড।

চোট নিয়ে মাঠ ছাড়েন ইমরুল কায়েসও। চতুর্থ দিন তামিমের সঙ্গে শট রান শেষ করতে গিয়ে ড্রাইভ দিয়েছিলেন ইমরুল। তাতেই মাটিতে শুয়ে কাতরাতে থাকেন তিনি। দ্রুত স্ট্রেচারে করে মাঠের বাইরে নিয়ে যাওয়া হয় ইমরুলকে।

আজ শেষ দিন মুশফিক-ইমরুল কেউ কিপিং করেন নি। কিপিং করেন সাব্বির রহমান। সবমিলে এক টেস্টে তিন উইকেটরক্ষককে কাজে লাগাতে হল বাংলাদেশকে। যদিও মুশফিক ব্যতিত বাকি দুইজন নামমাত্র ‘উইকেটরক্ষক’।

jamunanews24.com/ali/16 january 2017
স্পোর্টস ডেস্ক: অবাক হলেন নাকি? হওয়াটাই স্বাভাবিক। কথা কিন্তু সত্য। ওয়েলিংটন টেস্টে এমন চিত্রই দেখল ক্রিকেটবিশ্ব। এক না দুই না গুণে গুণে তিনজন ছিলেন উইকেটের পেছনে। তবে সেটা একসঙ্গে নয়, একজনের বদলে আরেকজন।
কথাগুলো বেশ রসালো মনে হলেও এর পেছনে জড়িয়ে আছে দুর্ভাগ্য। বোধ হয় নিয়তির নির্মম রূপটা দেখল বাংলাদেশ।

হ্যামস্ট্রিংয়ের চোটের কারণে মাত্র একটি ওয়ানডে খেললেও গোটা টি-টোয়েন্টি সিরিজে দর্শক হয়ে থাকতে হয় নিয়মিত উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিমকে। তার পরিবর্তে দলে জায়গা পান নুরুল হাসান সোহান।

এরপর ইনজুরি কাটিয়ে টেস্ট দলে ফেরেন মুশফিক। কিন্তু তাতেও ইনজুরির ছোবল। শুরু হয় হাতের ব্যথা। তৃতীয় দিন ব্যথা বেড়ে যাওয়ায় আর মাঠে নামানো হয়নি তাঁকে।

মুশফিকের জায়গায় কিপিং করেছিলেন ইমরুল। প্রায় দেড়শ ওভার উইকেটের পেছনে দায়িত্ব পালন করেন এই টাইগার ওপেনার। তালুবন্দী করেন ৫টি ক্যাচও। বদলী কিপার হিসেবে গড়েন বিশ্বরেকর্ড।

চোট নিয়ে মাঠ ছাড়েন ইমরুল কায়েসও। চতুর্থ দিন তামিমের সঙ্গে শট রান শেষ করতে গিয়ে ড্রাইভ দিয়েছিলেন ইমরুল। তাতেই মাটিতে শুয়ে কাতরাতে থাকেন তিনি। দ্রুত স্ট্রেচারে করে মাঠের বাইরে নিয়ে যাওয়া হয় ইমরুলকে।

আজ শেষ দিন মুশফিক-ইমরুল কেউ কিপিং করেন নি। কিপিং করেন সাব্বির রহমান। সবমিলে এক টেস্টে তিন উইকেটরক্ষককে কাজে লাগাতে হল বাংলাদেশকে। যদিও মুশফিক ব্যতিত বাকি দুইজন নামমাত্র ‘উইকেটরক্ষক’।

jamunanews24.com/ali/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 13:10:26 BDT Mon, 16 Jan 2017 13:10:26 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43111/-
হঠাৎ কুকুর তাড়া করলে যা করবেন http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43110/- যমুনা নিউজ: রাতে বাড়ি ফেরার সময় কপালে চিন্তার ভাঁজ। পাড়ার রাস্তার মুখেই কুকুরের জটলা। ভয়ে ভয়ে রাস্তা পেরিয়ে বাড়ি যেতেই আত্মার অবস্থা খারাপ। হঠাৎ কুকুর তাড়া করলে কী করা উচিত সে বিষয়ে অনেকেই কিছুই জানেন না। একনজরে দেখে নিন, রাস্তায় কুকুরের কু–দৃষ্টি কাটিয়ে নিরাপদে বাড়ি ফেরার কয়েকটি উপায়।

১. ভয় পাবেন না: মনে ভয় রাখলে চলবে না। একটা কথা ভুলবেন না, কুকুরের বুদ্ধি আপনার চেয়ে বেশি। তারা সবসময় বুঝতে পারে, কে ভয় পাচ্ছে। যারা ভয় পেয়ে পালানোর চেষ্টা করে, তাদের বেশি করে তাড়া করে এরা। তাই ভয় পাওয়া চলবে না কোনোভাবেই। কুকুর তাড়া করলে ঘুরে দাঁড়ান। উল্টো হুমকি দিন।

২. থেমে যান, ধীরে হাঁটুন: হাঁটার সময় যদি আশপাশ থেকে কুকুর আপনার দিকে তেড়ে আসতে থাকে তাহলে দাঁড়িয়ে যান কিংবা হাঁটার গতি আস্তে করুন। বোঝান যে, আপনি ভয়ে পালাচ্ছেন না।

৩. সরাসরি তাকাবেন না: কুকুরের চোখের দিকে সরাসরি তাকাবেন না। এতে কিছু কুকুর আগ্রাসী হয়ে ওঠে। তারা আপনার থেকে ভয় পেয়ে আরো তেড়ে আসতে পারে। তাই তাকে পাত্তা না দিয়ে আস্তে করে হেঁটে পার হয়ে আসুন।

৪. মনোযোগ ঘুরিয়ে দিন: কুকুরকে অন্য কোনো জিনিস দিয়ে ভুলিয়ে দিন। যাতে আপনার দিকে আর সে না তাকায়। আপনার কাছে যদি খালি বোতল, ছেঁড়া প্লাস্টিক বা বাতিল কিছু থাকলে তা কুকুরকে দেখিয়ে ছুঁড়ে দিন। সেটিতে সে তখন মন দেবে। আপনাকে মুক্তি দিতেও পারে।

jamunanews24.com/zobaida/ali/16 january 2017
যমুনা নিউজ: রাতে বাড়ি ফেরার সময় কপালে চিন্তার ভাঁজ। পাড়ার রাস্তার মুখেই কুকুরের জটলা। ভয়ে ভয়ে রাস্তা পেরিয়ে বাড়ি যেতেই আত্মার অবস্থা খারাপ। হঠাৎ কুকুর তাড়া করলে কী করা উচিত সে বিষয়ে অনেকেই কিছুই জানেন না। একনজরে দেখে নিন, রাস্তায় কুকুরের কু–দৃষ্টি কাটিয়ে নিরাপদে বাড়ি ফেরার কয়েকটি উপায়।

১. ভয় পাবেন না: মনে ভয় রাখলে চলবে না। একটা কথা ভুলবেন না, কুকুরের বুদ্ধি আপনার চেয়ে বেশি। তারা সবসময় বুঝতে পারে, কে ভয় পাচ্ছে। যারা ভয় পেয়ে পালানোর চেষ্টা করে, তাদের বেশি করে তাড়া করে এরা। তাই ভয় পাওয়া চলবে না কোনোভাবেই। কুকুর তাড়া করলে ঘুরে দাঁড়ান। উল্টো হুমকি দিন।

২. থেমে যান, ধীরে হাঁটুন: হাঁটার সময় যদি আশপাশ থেকে কুকুর আপনার দিকে তেড়ে আসতে থাকে তাহলে দাঁড়িয়ে যান কিংবা হাঁটার গতি আস্তে করুন। বোঝান যে, আপনি ভয়ে পালাচ্ছেন না।

৩. সরাসরি তাকাবেন না: কুকুরের চোখের দিকে সরাসরি তাকাবেন না। এতে কিছু কুকুর আগ্রাসী হয়ে ওঠে। তারা আপনার থেকে ভয় পেয়ে আরো তেড়ে আসতে পারে। তাই তাকে পাত্তা না দিয়ে আস্তে করে হেঁটে পার হয়ে আসুন।

৪. মনোযোগ ঘুরিয়ে দিন: কুকুরকে অন্য কোনো জিনিস দিয়ে ভুলিয়ে দিন। যাতে আপনার দিকে আর সে না তাকায়। আপনার কাছে যদি খালি বোতল, ছেঁড়া প্লাস্টিক বা বাতিল কিছু থাকলে তা কুকুরকে দেখিয়ে ছুঁড়ে দিন। সেটিতে সে তখন মন দেবে। আপনাকে মুক্তি দিতেও পারে।

jamunanews24.com/zobaida/ali/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 13:08:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 13:08:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43110/-
নূর হোসেন আপিল করবেন http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43109/- যমুনা নিউজ:নারায়ণগঞ্জের সাত খুনের মামলার রায়ে মৃতুদণ্ডপ্রাপ্ত প্রধান আসামি নূর হোসেন আপিল করবেন বলে জানিয়েছেন।

নূর হোসেনের বরাত দিয়ে তার আইনজীবী অ্যাডভোকেট খোকন সাহা জানান,রায় ঘোষণার পর তিনি হাইকোর্টে আপিল করবেন বলে জানিয়েছেন।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নে নূর হোসেনের বক্তব্য তুলে ধরে আইনজীবী জানান, ন্যায়বিচার পাননি। তিনি ঘটনার সঙ্গে জড়িত না, তাকে মিথ্যাভাবে জড়ানো হয়েছে। হাইকোর্টে আপিল করে ন্যায়বিচার পাবেন।

এদিকে আইনজীবী খোকন সাহা তার প্রতিক্রিয়ায় জানান, বিচারক যা ন্যায় মনে করেছেন, সে রায় দিয়েছেন। এ বিষয়ে তাদের কিছু বলার নেই।

সোমবার সাত খুনের মামলার প্রধান আসামি নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের (নাসিক) সাবেক কাউন্সিলর নূর হোসেন ও র‌্যাবের বরখাস্তকৃত তিন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাসহ ২৬ জনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। মামলায় ৩৫ জন আসামির মধ্যে বাকি ৯ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে।

jamunanews24.com/sa/anis/manik/ 16 Jan 2017
যমুনা নিউজ:নারায়ণগঞ্জের সাত খুনের মামলার রায়ে মৃতুদণ্ডপ্রাপ্ত প্রধান আসামি নূর হোসেন আপিল করবেন বলে জানিয়েছেন।

নূর হোসেনের বরাত দিয়ে তার আইনজীবী অ্যাডভোকেট খোকন সাহা জানান,রায় ঘোষণার পর তিনি হাইকোর্টে আপিল করবেন বলে জানিয়েছেন।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নে নূর হোসেনের বক্তব্য তুলে ধরে আইনজীবী জানান, ন্যায়বিচার পাননি। তিনি ঘটনার সঙ্গে জড়িত না, তাকে মিথ্যাভাবে জড়ানো হয়েছে। হাইকোর্টে আপিল করে ন্যায়বিচার পাবেন।

এদিকে আইনজীবী খোকন সাহা তার প্রতিক্রিয়ায় জানান, বিচারক যা ন্যায় মনে করেছেন, সে রায় দিয়েছেন। এ বিষয়ে তাদের কিছু বলার নেই।

সোমবার সাত খুনের মামলার প্রধান আসামি নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের (নাসিক) সাবেক কাউন্সিলর নূর হোসেন ও র‌্যাবের বরখাস্তকৃত তিন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাসহ ২৬ জনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। মামলায় ৩৫ জন আসামির মধ্যে বাকি ৯ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে।

jamunanews24.com/sa/anis/manik/ 16 Jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 13:07:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 13:07:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43109/-
জামিন পেলেন সেই রসরাজ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43108/- যমুনা নিউজ : ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগরে ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাতের ঘটনাকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষের  ঘটনায় গ্রেফতার রসরাজ দাস (২৭) জামিন পেয়েছেন। তার বিরুদ্ধে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনের ৫৭ (২) ধারায় মামলা করা হয়েছিল।   সোমবার বেলা ১১টায় জেলা ও দায়রা জজ মো. ইসমাইল হোসেনের আদালত তার জামিন মঞ্জুর করেন। রসরাজের পক্ষে শুনানিতে ছিলেন তার আইনজীবী অ্যাডভোকেট নাসির মিয়া এবং রাষ্ট্র পক্ষের আইনজীবী ছিলেন এসএম ইউসুফ। আইনজীবী নাসির মিয়া জানান, সোমবার জামিন শুনানির দিন ধার্য্য ছিল। আসামি রসরাজ দাসের উপস্থিতিতে জামিনের শুনানি অনুষ্ঠিত হয়। ফরেনসিক রিপোর্ট অনুযায়ী রসরাজ দাসের মোবাইল থেকে ধর্ম অবমাননার ছবি আপলোডের কোন প্রমাণ পাওয়া যায়নি।  ফরেনসিক রিপোর্ট আদালতে উপস্থাপনের পর আদালত পরবর্তী পু্লিশ প্রতিবেদন দাখিল না হওয়া পর্যন্ত তার জামিন মঞ্জুর করেন। রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী এসএম ইউসুফ বলেন, আধুনিক তথ্য প্রযুক্তি উপস্থাপন করে ঘটনায় রসরাজের সম্পৃক্ততা না থাকার প্রমাণ পাওয়ায় রসরাজ দাসের জামিন মঞ্জুর করেছেন আদালত। এদিকে, রসরাজ দাসের জামিন শুনানিকে কেন্দ্র করে সকাল থেকেই জেলা জজ আদালতের নিরাপত্তা বাড়ানো হয়। Jamunanews24.com/tofazzal/sm/16 January 2017
যমুনা নিউজ : ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগরে ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাতের ঘটনাকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষের  ঘটনায় গ্রেফতার রসরাজ দাস (২৭) জামিন পেয়েছেন। তার বিরুদ্ধে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনের ৫৭ (২) ধারায় মামলা করা হয়েছিল।   সোমবার বেলা ১১টায় জেলা ও দায়রা জজ মো. ইসমাইল হোসেনের আদালত তার জামিন মঞ্জুর করেন। রসরাজের পক্ষে শুনানিতে ছিলেন তার আইনজীবী অ্যাডভোকেট নাসির মিয়া এবং রাষ্ট্র পক্ষের আইনজীবী ছিলেন এসএম ইউসুফ। আইনজীবী নাসির মিয়া জানান, সোমবার জামিন শুনানির দিন ধার্য্য ছিল। আসামি রসরাজ দাসের উপস্থিতিতে জামিনের শুনানি অনুষ্ঠিত হয়। ফরেনসিক রিপোর্ট অনুযায়ী রসরাজ দাসের মোবাইল থেকে ধর্ম অবমাননার ছবি আপলোডের কোন প্রমাণ পাওয়া যায়নি।  ফরেনসিক রিপোর্ট আদালতে উপস্থাপনের পর আদালত পরবর্তী পু্লিশ প্রতিবেদন দাখিল না হওয়া পর্যন্ত তার জামিন মঞ্জুর করেন। রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী এসএম ইউসুফ বলেন, আধুনিক তথ্য প্রযুক্তি উপস্থাপন করে ঘটনায় রসরাজের সম্পৃক্ততা না থাকার প্রমাণ পাওয়ায় রসরাজ দাসের জামিন মঞ্জুর করেছেন আদালত। এদিকে, রসরাজ দাসের জামিন শুনানিকে কেন্দ্র করে সকাল থেকেই জেলা জজ আদালতের নিরাপত্তা বাড়ানো হয়। Jamunanews24.com/tofazzal/sm/16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 12:59:25 BDT Mon, 16 Jan 2017 12:59:25 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43108/-
‘ ভারত-পাকিস্তান যুদ্ধে পরমাণু বোমা ব্যবহার হতে পারে’ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43107/- যমুনা নিউজ: ভারত-পাকিস্তান আঞ্চলিক ইস্যুতে যুদ্ধ বাধলে সেখানে পরমাণু বোমা ব্যবহার হতে পারে বলে হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেছে আমেরিকা। ওয়াশিংটনের কার্নেগি এনডাওমেন্ট ফর ইন্টারন্যাশনাল পিসে দেয়া ভাষণে এ হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন ওবামা সরকারের বিদায়ী ভাইস-প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। তিনি বলেন, তার ভাষায়, কেবল উত্তর কোরিয়া নয় বরং রাশিয়া, পাকিস্তান এবং অন্যান্য দেশ বিরূপ পদক্ষেপ নিচ্ছে। এতে শুধু ইউরোপ, দক্ষিণ এশিয়া বা পূর্ব এশিয়ার আঞ্চলিক সংঘাতে পরমাণু অস্ত্র ব্যবহারের ঝুঁকি বাড়ছে বলেও হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন তিনি। মার্কিন পরবর্তী প্রশাসন এ বিপদ কাটানোর চেষ্টা করবে এবং পরমাণু অস্ত্র হ্রাসে বিশ্বে ঐকমত্য তৈরির ক্ষেত্রে নেতৃত্ব দিবেন বলে প্রত্যাশা করেন জো বাইডেন। অবশ্য বাইডেনের এ ভাষণে ইসরাইলের অবৈধ পরমাণু কর্মসূচি নিয়ে কোনো কথাই বলা হয়নি।  এ ছাড়া, তেল আবিবের ব্যাপক পরমাণু অস্ত্র ভাণ্ডারের কথা ভুলেও উচ্চারণ করেননি তিনি। Jamunanews24.com/tofazzal/sm/16 January 2017
যমুনা নিউজ: ভারত-পাকিস্তান আঞ্চলিক ইস্যুতে যুদ্ধ বাধলে সেখানে পরমাণু বোমা ব্যবহার হতে পারে বলে হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেছে আমেরিকা। ওয়াশিংটনের কার্নেগি এনডাওমেন্ট ফর ইন্টারন্যাশনাল পিসে দেয়া ভাষণে এ হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন ওবামা সরকারের বিদায়ী ভাইস-প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। তিনি বলেন, তার ভাষায়, কেবল উত্তর কোরিয়া নয় বরং রাশিয়া, পাকিস্তান এবং অন্যান্য দেশ বিরূপ পদক্ষেপ নিচ্ছে। এতে শুধু ইউরোপ, দক্ষিণ এশিয়া বা পূর্ব এশিয়ার আঞ্চলিক সংঘাতে পরমাণু অস্ত্র ব্যবহারের ঝুঁকি বাড়ছে বলেও হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন তিনি। মার্কিন পরবর্তী প্রশাসন এ বিপদ কাটানোর চেষ্টা করবে এবং পরমাণু অস্ত্র হ্রাসে বিশ্বে ঐকমত্য তৈরির ক্ষেত্রে নেতৃত্ব দিবেন বলে প্রত্যাশা করেন জো বাইডেন। অবশ্য বাইডেনের এ ভাষণে ইসরাইলের অবৈধ পরমাণু কর্মসূচি নিয়ে কোনো কথাই বলা হয়নি।  এ ছাড়া, তেল আবিবের ব্যাপক পরমাণু অস্ত্র ভাণ্ডারের কথা ভুলেও উচ্চারণ করেননি তিনি। Jamunanews24.com/tofazzal/sm/16 January 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 12:43:35 BDT Mon, 16 Jan 2017 12:43:35 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43107/-
মেহেরপুরে যুবলীগের উদ্যোগে কম্বল বিতরণ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43106/- যমুনা নিউজ: মেহেরপুরে স্থানীয় যুবলীগের উদ্যোগে দুস্থদের মাঝে কম্বল বিতরণ করা হয়েছে।

সোমবার সকালে  মেহেরপুর জেলা যুবলীগের আহ্বায়ক মাহফুজ রহমান রিটনের বাড়ির সামনে কম্বল বিতরণ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।
 
মাহফুজুর রহমান রিটনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন মেহেরপুর জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও মেহেরপুর থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি গোলাম রসুল। আরও উপস্থিত ছিলেন, জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক শহিদুল ইসলাম পেরেশান,  আক্কাস আলী প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে ১৫ শ দুস্থ নারী-পুরুষের মাঝে  কম্বল বিতরণ করা হয়।

jamunanews24.com/liton/rana/16 january 2017
যমুনা নিউজ: মেহেরপুরে স্থানীয় যুবলীগের উদ্যোগে দুস্থদের মাঝে কম্বল বিতরণ করা হয়েছে।

সোমবার সকালে  মেহেরপুর জেলা যুবলীগের আহ্বায়ক মাহফুজ রহমান রিটনের বাড়ির সামনে কম্বল বিতরণ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।
 
মাহফুজুর রহমান রিটনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন মেহেরপুর জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও মেহেরপুর থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি গোলাম রসুল। আরও উপস্থিত ছিলেন, জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক শহিদুল ইসলাম পেরেশান,  আক্কাস আলী প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে ১৫ শ দুস্থ নারী-পুরুষের মাঝে  কম্বল বিতরণ করা হয়।

jamunanews24.com/liton/rana/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 12:42:46 BDT Mon, 16 Jan 2017 12:42:46 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43106/-
জিতলেন অ্যাড. সাখাওয়াত হোসেন http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43105/- যমুনা নিউজ: নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে বিএনপির প্রার্থী হয়ে লড়াই করে হেরে গেলেও আজ জিতলেন চাঞ্চল্যকর সাত খুন মামালার বাদী পক্ষের প্রধান আইনজীবী অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন।

সোমবার  নারায়ণগঞ্জ জজ আদালতে এই মামলায় ২৬ জনের মৃত্যুদণ্ডের রায় ঘোষণার পর সাংবাদিকদের অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন বলেন, ‘এই রায়ের মাধ্যমে ন্যায়বিচার পেয়েছি।’

মূলত এই মামলার মাধ্যমেই আলোচনায় এসেছিলেন নারায়ণগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি, বিএনপি নেতা অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন। পরে বিএনপি তাকে সিটি নির্বাচনে প্রার্থী করে।

সাত খুনের ঘটনা ঘটার পরে কোনো আইনজীবী যখন এই মামলা লড়তে সাহস করে এগিয়ে আসছিলেন না তখন অসীম সাহসের পরিচয় দেন অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন।

রায়ের পরে প্রতিক্রিয়ায় তিনি বলেন, আসামিরা প্রভাবশালী হওয়ায় ন্যায়বিচার না পাওয়ার শঙ্কা তৈরি হয়। পরে আমিসহ তিনজন আইনজীবী উচ্চ আদালতে রিট করি। উচ্চ আদালত এই মামলার মূল আসামিদের  গ্রেফতার করে জিজ্ঞাসাবাদের নির্দেশ দেন।  তারই ধারাবাহিকতায় আজ এই রায়। তিনি অবিলম্বে এই রায় কার্যকরের আহ্বান জানান।


jamunanews24.com/hasib/anis 16 jan 2017
যমুনা নিউজ: নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে বিএনপির প্রার্থী হয়ে লড়াই করে হেরে গেলেও আজ জিতলেন চাঞ্চল্যকর সাত খুন মামালার বাদী পক্ষের প্রধান আইনজীবী অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন।

সোমবার  নারায়ণগঞ্জ জজ আদালতে এই মামলায় ২৬ জনের মৃত্যুদণ্ডের রায় ঘোষণার পর সাংবাদিকদের অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন বলেন, ‘এই রায়ের মাধ্যমে ন্যায়বিচার পেয়েছি।’

মূলত এই মামলার মাধ্যমেই আলোচনায় এসেছিলেন নারায়ণগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি, বিএনপি নেতা অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন। পরে বিএনপি তাকে সিটি নির্বাচনে প্রার্থী করে।

সাত খুনের ঘটনা ঘটার পরে কোনো আইনজীবী যখন এই মামলা লড়তে সাহস করে এগিয়ে আসছিলেন না তখন অসীম সাহসের পরিচয় দেন অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন।

রায়ের পরে প্রতিক্রিয়ায় তিনি বলেন, আসামিরা প্রভাবশালী হওয়ায় ন্যায়বিচার না পাওয়ার শঙ্কা তৈরি হয়। পরে আমিসহ তিনজন আইনজীবী উচ্চ আদালতে রিট করি। উচ্চ আদালত এই মামলার মূল আসামিদের  গ্রেফতার করে জিজ্ঞাসাবাদের নির্দেশ দেন।  তারই ধারাবাহিকতায় আজ এই রায়। তিনি অবিলম্বে এই রায় কার্যকরের আহ্বান জানান।


jamunanews24.com/hasib/anis 16 jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 12:42:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 12:42:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43105/-
নীরব রানা ও সাঈদের পরিবার http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43104/- যমুনা নিউজ: নারায়ণগঞ্জের সাত খুনের মামলায় মৃত্যুদণ্ড দেয়া ২৬ জনের মধ্যে র‌্যাবের সাবেক তিন কর্মকর্তাও রয়েছেন। রায় নিয়ে তাদের পরিবারের কেউ মন্তব্য করতে চান না। দুই পরিবারের পক্ষ থেকেই বলা হচ্ছে, মামলাটি স্পর্শকতর তাই মন্তব্য করা ঠিক হবে না। সোমবার সকালে নারায়ণগঞ্জ জেলা ও দায়রা জজ আদালতে সাত খুন মামলার রায় ঘোষণা করা হয়। এতে মামলার প্রধান আসামি নূর হোসেন, র‌্যাব-১১-এর সাবেক তিন কর্মকর্তা তারেক মোহাম্মদ সাঈদ, আরিফ হোসেন ও এম এম রানাসহ ২৬ জনকে ফাঁসি দিয়েছেন আদালত। রায় ঘোষণার সময় আদালতে তারেক সাঈদের বাবা মুজিবুর রহমান ও এম এম রানার শাশুড়ি উপস্থিত ছিলেন। রায়ের প্রতিক্রিয়া জানতে চাইলে মুজিবুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, স্পর্শকাতর এই মামলা নিয়ে কোনো মন্তব্য করতে চাই না। রানার শাশুড়ি সুলতানা রহমান শিল্পী বলেন, আমি কোনো কিছু বলতে চাই না। অবশ্য তার সঙ্গে আসা এক আইনজীবী রিতা ইসলাম বলেন, তারা খালাস আসা করেছিলেন। তা না হওয়ায় এখন উচ্চ আদালতে যাবেন। Jamunanews24.com/tofazzal/sm/16 Jamuary 2017
যমুনা নিউজ: নারায়ণগঞ্জের সাত খুনের মামলায় মৃত্যুদণ্ড দেয়া ২৬ জনের মধ্যে র‌্যাবের সাবেক তিন কর্মকর্তাও রয়েছেন। রায় নিয়ে তাদের পরিবারের কেউ মন্তব্য করতে চান না। দুই পরিবারের পক্ষ থেকেই বলা হচ্ছে, মামলাটি স্পর্শকতর তাই মন্তব্য করা ঠিক হবে না। সোমবার সকালে নারায়ণগঞ্জ জেলা ও দায়রা জজ আদালতে সাত খুন মামলার রায় ঘোষণা করা হয়। এতে মামলার প্রধান আসামি নূর হোসেন, র‌্যাব-১১-এর সাবেক তিন কর্মকর্তা তারেক মোহাম্মদ সাঈদ, আরিফ হোসেন ও এম এম রানাসহ ২৬ জনকে ফাঁসি দিয়েছেন আদালত। রায় ঘোষণার সময় আদালতে তারেক সাঈদের বাবা মুজিবুর রহমান ও এম এম রানার শাশুড়ি উপস্থিত ছিলেন। রায়ের প্রতিক্রিয়া জানতে চাইলে মুজিবুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, স্পর্শকাতর এই মামলা নিয়ে কোনো মন্তব্য করতে চাই না। রানার শাশুড়ি সুলতানা রহমান শিল্পী বলেন, আমি কোনো কিছু বলতে চাই না। অবশ্য তার সঙ্গে আসা এক আইনজীবী রিতা ইসলাম বলেন, তারা খালাস আসা করেছিলেন। তা না হওয়ায় এখন উচ্চ আদালতে যাবেন। Jamunanews24.com/tofazzal/sm/16 Jamuary 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 12:35:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 12:35:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43104/-
রায় দ্রুত কার্যকর চান চন্দন সরকারের মেয়ে http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43103/- যমুনা নিউজ: নিহত আইনজীবী চন্দন সরকারের মেয়ে ডা. সুস্মিতা সরকার বলেছেন, সাত খুনের মামলার রায়ে আমি সন্তুষ্ট। এ রায় দ্রুত কার্যকর হবে এটাই আমার প্রত্যাশা।

সোমবার নারায়ণগঞ্জের জেলা ও দায়রা জজ আদালতে চাঞ্চল্যকর এই সাত খুনের মামলায় ২৬ জনের মৃত্যুদণ্ড ও ৯ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন। নারায়ণগঞ্জের জেলা ও দায়রা জজ সৈয়দ এনায়েত হোসেনের আদালত এ রায় ঘোষণা করেন।

রায় ঘোষণার পর সাংবাদিকদের তিনি বলেন, আমার বাবা সারাজীবন ন্যায় বিচারের জন্য কাজ করেছেন। আজকে তার আত্মা শান্তি পাবে।

তিনি বলেন, উচ্চ আদালতের প্রতিও আমাদের বিশ্বাস আছে, রায় যেন দ্রুত কার্যকর হয়- এটাই এখন আমাদের প্রত্যাশা। আজকের এ দিনের জন্য আইনজীবী, বিচারক, গণমাধ্যমের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন তিনি।

প্রসঙ্গত, ২০১৪ সালের ২৭ এপ্রিল ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ লিংকরোড থেকে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের কাউন্সিলর নজরুল ইসলাম, আইনজীবী চন্দন সরকারসহ সাতজনকে অপহরণ করা হয়। তিন দিন পর ৩০ এপ্রিল শীতলক্ষ্যা নদীতে ছয়জনের এবং পরদিন প্রায় একই স্থান থেকে আরেকজনের লাশ পাওয়া যায়।

Jamunanews24.com/sm/ 16 janu. 2017
যমুনা নিউজ: নিহত আইনজীবী চন্দন সরকারের মেয়ে ডা. সুস্মিতা সরকার বলেছেন, সাত খুনের মামলার রায়ে আমি সন্তুষ্ট। এ রায় দ্রুত কার্যকর হবে এটাই আমার প্রত্যাশা।

সোমবার নারায়ণগঞ্জের জেলা ও দায়রা জজ আদালতে চাঞ্চল্যকর এই সাত খুনের মামলায় ২৬ জনের মৃত্যুদণ্ড ও ৯ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন। নারায়ণগঞ্জের জেলা ও দায়রা জজ সৈয়দ এনায়েত হোসেনের আদালত এ রায় ঘোষণা করেন।

রায় ঘোষণার পর সাংবাদিকদের তিনি বলেন, আমার বাবা সারাজীবন ন্যায় বিচারের জন্য কাজ করেছেন। আজকে তার আত্মা শান্তি পাবে।

তিনি বলেন, উচ্চ আদালতের প্রতিও আমাদের বিশ্বাস আছে, রায় যেন দ্রুত কার্যকর হয়- এটাই এখন আমাদের প্রত্যাশা। আজকের এ দিনের জন্য আইনজীবী, বিচারক, গণমাধ্যমের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন তিনি।

প্রসঙ্গত, ২০১৪ সালের ২৭ এপ্রিল ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ লিংকরোড থেকে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের কাউন্সিলর নজরুল ইসলাম, আইনজীবী চন্দন সরকারসহ সাতজনকে অপহরণ করা হয়। তিন দিন পর ৩০ এপ্রিল শীতলক্ষ্যা নদীতে ছয়জনের এবং পরদিন প্রায় একই স্থান থেকে আরেকজনের লাশ পাওয়া যায়।

Jamunanews24.com/sm/ 16 janu. 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 12:24:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 12:24:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43103/-
লালমনিরহাটে ইজিবাইক-ট্রলি সংঘর্ষে নিহত ১ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43102/- যমুনা নিউজ: লালমনিরহাটের হাতিবান্ধা উপজেলায় ইজিবাইক-ট্রলি সংঘর্ষে নয়ন হোসেন (৯) নামে এক স্কুলছাত্র নিহত হয়েছে। এতে আহত হয়েছেন ইজিবাইকের আরও চার যাত্রী।

সোমবার সকাল ১০টার দিকে উপজেলার লালমনিরহাট-বুড়িমারী মহাসড়কের আরডিআরএস এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত নয়ন হোসেন সিঙ্গিমারী গ্রামের আব্দুস ছালামের ছেলে। সে সিঙ্গিমারী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় শ্রেণির ছাত্র ছিল।

হাতিবান্ধা থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রোজাউল করিম জানান, হাতিবান্ধা শাহ্ গরিবুল্লাহ (র.) দরবেশের ওরসের অনুষ্ঠান থেকে তবারক নিয়ে ইজিবাইকে করে বাড়ি ফিরছিল নয়নসহ অন্যরা। এ সময় আরডিআরএস এলাকায় পৌঁছালে একটি ট্রলির সঙ্গে ইজিবাইকের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই নয়ন মারা যায়।

এ সময় আরও চারজন আহত হন। আহতদের উদ্ধার করে রংপুর মেডিকেল কলেজ (রমেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে বলেও জানান ওসি।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017
যমুনা নিউজ: লালমনিরহাটের হাতিবান্ধা উপজেলায় ইজিবাইক-ট্রলি সংঘর্ষে নয়ন হোসেন (৯) নামে এক স্কুলছাত্র নিহত হয়েছে। এতে আহত হয়েছেন ইজিবাইকের আরও চার যাত্রী।

সোমবার সকাল ১০টার দিকে উপজেলার লালমনিরহাট-বুড়িমারী মহাসড়কের আরডিআরএস এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত নয়ন হোসেন সিঙ্গিমারী গ্রামের আব্দুস ছালামের ছেলে। সে সিঙ্গিমারী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় শ্রেণির ছাত্র ছিল।

হাতিবান্ধা থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রোজাউল করিম জানান, হাতিবান্ধা শাহ্ গরিবুল্লাহ (র.) দরবেশের ওরসের অনুষ্ঠান থেকে তবারক নিয়ে ইজিবাইকে করে বাড়ি ফিরছিল নয়নসহ অন্যরা। এ সময় আরডিআরএস এলাকায় পৌঁছালে একটি ট্রলির সঙ্গে ইজিবাইকের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই নয়ন মারা যায়।

এ সময় আরও চারজন আহত হন। আহতদের উদ্ধার করে রংপুর মেডিকেল কলেজ (রমেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে বলেও জানান ওসি।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 12:01:24 BDT Mon, 16 Jan 2017 12:01:24 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43102/-
বিনা বিচারে কারাবন্দী চার নারী আদালতে হাজির http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43100/- যমুনা নিউজ: পৃথক চারটি হত্যা মামলায় বিনা বিচারে অনেক দিন ধরে কারাগারে থাকা চার নারীকে আদালতে হাজির করা হয়েছে। বিচারপতি ওবায়দুল হাসান ও বিচারপতি কৃষ্ণা দেবনাথের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চে আজ সোমবার তাদের জামিন প্রশ্নে শুনানি হওয়ার কথা।

গত ৩০ নভেম্বর এই চার নারীকে আজ আদালতে হাজির করার নির্দেশ দেন বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি জে বি এম হাসানের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ। 

নথিপত্রে দেখা যায়, শ্যামপুর থানায় করা এক হত্যা মামলায় নারায়ণগঞ্জের সুমি আক্তার ২০০৯ সালের ১৫ জানুয়ারি থেকে কারাগারে আছেন।

দোহার থানার এক হত্যা মামলায় নারায়ণগঞ্জের শাহনাজ বেগম ২০০৮ সালের ১৬ সেপ্টেম্বর থেকে কারাগারে।

তুরাগ থানার এক হত্যা মামলায় গাজীপুরের রাজিয়া সুলতানা ২০০৯ সালের ২১ মে থেকে কারাগারে।

রমনা থানার এক হত্যা মামলায় ময়মনসিংহের রানী ওরফে নূপুর ২০০৯ সালের ২১ নভেম্বর থেকে কারাগারে।

jamunanews24.com/anis/ 16 jan 2017
যমুনা নিউজ: পৃথক চারটি হত্যা মামলায় বিনা বিচারে অনেক দিন ধরে কারাগারে থাকা চার নারীকে আদালতে হাজির করা হয়েছে। বিচারপতি ওবায়দুল হাসান ও বিচারপতি কৃষ্ণা দেবনাথের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চে আজ সোমবার তাদের জামিন প্রশ্নে শুনানি হওয়ার কথা।

গত ৩০ নভেম্বর এই চার নারীকে আজ আদালতে হাজির করার নির্দেশ দেন বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি জে বি এম হাসানের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ। 

নথিপত্রে দেখা যায়, শ্যামপুর থানায় করা এক হত্যা মামলায় নারায়ণগঞ্জের সুমি আক্তার ২০০৯ সালের ১৫ জানুয়ারি থেকে কারাগারে আছেন।

দোহার থানার এক হত্যা মামলায় নারায়ণগঞ্জের শাহনাজ বেগম ২০০৮ সালের ১৬ সেপ্টেম্বর থেকে কারাগারে।

তুরাগ থানার এক হত্যা মামলায় গাজীপুরের রাজিয়া সুলতানা ২০০৯ সালের ২১ মে থেকে কারাগারে।

রমনা থানার এক হত্যা মামলায় ময়মনসিংহের রানী ওরফে নূপুর ২০০৯ সালের ২১ নভেম্বর থেকে কারাগারে।

jamunanews24.com/anis/ 16 jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 11:55:03 BDT Mon, 16 Jan 2017 11:55:03 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43100/-
সিরিয়ায় সেফ জোন করা উচিত ছিল http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43099/- যমুনা নিউজ: সিরিয়ার অভিবাসী প্রসঙ্গে ট্রাম্প মনে করেন, এতো বিপুলসংখ্যাক শরণার্থীকে জার্মানিতে জায়গা দেয়া উচিত হয়নি। এর বদলে সিরিয়াতেই সেফ জোন তৈরি করা উচিত ছিল।

ব্রিটিশ সংবাদপত্র টাইমস অফ লন্ডন এবং জার্মান সংবাদপত্র দ্য বিল্ড-এ দেয়া সাক্ষাৎকারে তিনি অ্যামেরিকার বাণিজ্য নীতি, সিরিয়া প্রসঙ্গ এবং ইরাক যুদ্ধ প্রসঙ্গেও কথা বলেছেন।

ট্রাম্প বলছেন, আমার মনে হয় সিরিয়াতেই সেফ জোন তৈরি করা গেলে, এতে ব্যয় কিছুটা কমতো। আর এজন্য উপসাগরীয় রাষ্ট্রগুলোরও কিছু অর্থ খরচ করা উচিত। কারণ তাদের এতো প্রচুর অর্থ আছে যা অন্যদের নেই। আমরা এবং তারা মিলে এই কাজ করতে পারলে এতে ব্যয় অনেক কম হতো এবং জার্মানি আজকে যে ট্রমার ভেতর দিয়ে যাচ্ছে তা অনেক কম হতো। তাই আমি বলবো, সিরিয়াতে সেফ জোন তৈরি করুন।

২০ জানুয়ারি প্রেসিডেন্ট হিসেবে আনুষ্ঠানিকভাবে যুক্তরাষ্ট্রের ক্ষমতায় আসছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। ক্ষমতায় আসার প্রাক-মুহূর্তে নিজের বিদেশ-নীতি কেমন হবে তা নিয়ে একটা ধারণা দিয়েছেন তিনি।

যুক্তরাষ্ট্রের বাণিজ্যে যে ঘাটতি আছে তা পূরণ করাই ট্রাম্পের অন্যতম উদ্দেশ বলে তিনি উল্লেখ করেছেন। বিশেষত চীনের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের ঘাটতি পুষিয়ে নিতে ট্রাম্প বিশেষভাবে আগ্রহী বলে জানিয়েছেন।

আর এই ঘাটতি মেটাতে তিনি ' ফেয়ারার ট্রেড ডিল' বা ব্যাবসায়িক ক্ষেত্রে আরো অনুকূল নীতি নেয়ার পক্ষপাতী। ট্রাম্প বলেছেন, ফ্রি ট্রেড নয়, স্মার্ট ট্রেড এর উপরে গুরুত্ব দেবেন তিনি।

Jamunanews24.com/sm/16 janu 2017
যমুনা নিউজ: সিরিয়ার অভিবাসী প্রসঙ্গে ট্রাম্প মনে করেন, এতো বিপুলসংখ্যাক শরণার্থীকে জার্মানিতে জায়গা দেয়া উচিত হয়নি। এর বদলে সিরিয়াতেই সেফ জোন তৈরি করা উচিত ছিল।

ব্রিটিশ সংবাদপত্র টাইমস অফ লন্ডন এবং জার্মান সংবাদপত্র দ্য বিল্ড-এ দেয়া সাক্ষাৎকারে তিনি অ্যামেরিকার বাণিজ্য নীতি, সিরিয়া প্রসঙ্গ এবং ইরাক যুদ্ধ প্রসঙ্গেও কথা বলেছেন।

ট্রাম্প বলছেন, আমার মনে হয় সিরিয়াতেই সেফ জোন তৈরি করা গেলে, এতে ব্যয় কিছুটা কমতো। আর এজন্য উপসাগরীয় রাষ্ট্রগুলোরও কিছু অর্থ খরচ করা উচিত। কারণ তাদের এতো প্রচুর অর্থ আছে যা অন্যদের নেই। আমরা এবং তারা মিলে এই কাজ করতে পারলে এতে ব্যয় অনেক কম হতো এবং জার্মানি আজকে যে ট্রমার ভেতর দিয়ে যাচ্ছে তা অনেক কম হতো। তাই আমি বলবো, সিরিয়াতে সেফ জোন তৈরি করুন।

২০ জানুয়ারি প্রেসিডেন্ট হিসেবে আনুষ্ঠানিকভাবে যুক্তরাষ্ট্রের ক্ষমতায় আসছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। ক্ষমতায় আসার প্রাক-মুহূর্তে নিজের বিদেশ-নীতি কেমন হবে তা নিয়ে একটা ধারণা দিয়েছেন তিনি।

যুক্তরাষ্ট্রের বাণিজ্যে যে ঘাটতি আছে তা পূরণ করাই ট্রাম্পের অন্যতম উদ্দেশ বলে তিনি উল্লেখ করেছেন। বিশেষত চীনের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের ঘাটতি পুষিয়ে নিতে ট্রাম্প বিশেষভাবে আগ্রহী বলে জানিয়েছেন।

আর এই ঘাটতি মেটাতে তিনি ' ফেয়ারার ট্রেড ডিল' বা ব্যাবসায়িক ক্ষেত্রে আরো অনুকূল নীতি নেয়ার পক্ষপাতী। ট্রাম্প বলেছেন, ফ্রি ট্রেড নয়, স্মার্ট ট্রেড এর উপরে গুরুত্ব দেবেন তিনি।

Jamunanews24.com/sm/16 janu 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 11:42:04 BDT Mon, 16 Jan 2017 11:42:04 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43099/-
চট্টগ্রামে ট্রাকের ধাক্কায় পথচারী নিহত http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43098/- যমুনা নিউজ: ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের সীতাকুণ্ডে ট্রাকের ধাক্কায় এক পথচারী নিহত হয়েছেন।

রোববার (১৫ জানুয়ারি) সন্ধ্যা ৬টায় উপজেলার শীতলপুরের বগুলাবাজার এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত মো. মছিউদৌলা (৩০) দক্ষিণ সোনাইছড়ি গামারীতলা গ্রামের জাফর আহম্মদের ছেলে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, মো. মছিউদৌলা সন্ধ্যার দিকে রাস্তা পার হওয়ার সময় ঢাকামুখী দ্রুতগতির একটি ট্রাক তাকে চাপা দিলে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়।

হাইওয়ে পুলিশের বার আউলিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) ছালেহ আহাম্মদ পাঠান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, দুর্ঘটনার খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশটি উদ্ধার হয়েছে এবং পরে ট্রাকটি আটক করে থানায় নিয়ে যাওয়া হয়।

jamunanews24.com/jamil/rasib/sm/16 january 2017
যমুনা নিউজ: ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের সীতাকুণ্ডে ট্রাকের ধাক্কায় এক পথচারী নিহত হয়েছেন।

রোববার (১৫ জানুয়ারি) সন্ধ্যা ৬টায় উপজেলার শীতলপুরের বগুলাবাজার এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত মো. মছিউদৌলা (৩০) দক্ষিণ সোনাইছড়ি গামারীতলা গ্রামের জাফর আহম্মদের ছেলে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, মো. মছিউদৌলা সন্ধ্যার দিকে রাস্তা পার হওয়ার সময় ঢাকামুখী দ্রুতগতির একটি ট্রাক তাকে চাপা দিলে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়।

হাইওয়ে পুলিশের বার আউলিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) ছালেহ আহাম্মদ পাঠান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, দুর্ঘটনার খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশটি উদ্ধার হয়েছে এবং পরে ট্রাকটি আটক করে থানায় নিয়ে যাওয়া হয়।

jamunanews24.com/jamil/rasib/sm/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 11:39:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 11:39:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43098/-
ইরাকে হামলা করা উচিত হয়নি http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43097/- যমুনা নিউজ : ইরাকে মার্কিন আগ্রাসন নিয়ে নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন, ইরাকে হামলা করা উচিত হয়নি। শুধু তাই নয়, ইরাকে হামলার এই সিদ্ধান্তকে মার্কিন ইতিহাসের সবচে জঘন্য ঘটনা হিসেবেও উল্লেখ করেছেন তিনি।

ব্রিটিশ সংবাদপত্র টাইমস অব লন্ডন এবং জার্মান সংবাদপত্র দা বিল্ড-এ দেয়া সাক্ষাৎকারে তিনি এ কথা বলেন।

ট্রাম্প বলেছেন, একটা উল্লেখযোগ্য পরিমাণে পারমাণবিক অস্ত্র হ্রাসের ব্যাপারে অ্যামেরিকা ও রাশিয়া একমত হলেই রাশিয়ার ওপর থেকে কিছু নিষেধাজ্ঞা তুলে নেবেন ট্রাম্প। তবে রাশিয়ার কর্মকাণ্ড, সামর্থ্য ও অভিসন্ধি সম্পর্কে ট্রাম্প ভালোভাবে জানেন না বলে সমালোচনা করেছেন সিআইএ-এর পরিচালক জন ব্রেনান।

মস্কোর ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা উঠানোর ক্ষেত্রেও হোয়াইট হাউসকে খুবই সতর্ক হতে হবে বলেও তিনি উল্লেখ করেছেন।

Jamunanews24.com/sm/ 16 janu. 2017
যমুনা নিউজ : ইরাকে মার্কিন আগ্রাসন নিয়ে নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন, ইরাকে হামলা করা উচিত হয়নি। শুধু তাই নয়, ইরাকে হামলার এই সিদ্ধান্তকে মার্কিন ইতিহাসের সবচে জঘন্য ঘটনা হিসেবেও উল্লেখ করেছেন তিনি।

ব্রিটিশ সংবাদপত্র টাইমস অব লন্ডন এবং জার্মান সংবাদপত্র দা বিল্ড-এ দেয়া সাক্ষাৎকারে তিনি এ কথা বলেন।

ট্রাম্প বলেছেন, একটা উল্লেখযোগ্য পরিমাণে পারমাণবিক অস্ত্র হ্রাসের ব্যাপারে অ্যামেরিকা ও রাশিয়া একমত হলেই রাশিয়ার ওপর থেকে কিছু নিষেধাজ্ঞা তুলে নেবেন ট্রাম্প। তবে রাশিয়ার কর্মকাণ্ড, সামর্থ্য ও অভিসন্ধি সম্পর্কে ট্রাম্প ভালোভাবে জানেন না বলে সমালোচনা করেছেন সিআইএ-এর পরিচালক জন ব্রেনান।

মস্কোর ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা উঠানোর ক্ষেত্রেও হোয়াইট হাউসকে খুবই সতর্ক হতে হবে বলেও তিনি উল্লেখ করেছেন।

Jamunanews24.com/sm/ 16 janu. 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 11:25:08 BDT Mon, 16 Jan 2017 11:25:08 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43097/-
এ রায়ে আমরা খুশি: নজরুলের শ্বশুর http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43095/- যমুনা নিউজ: আলোচিত সাত খুনের মামলায় ণুর হোসেনসহ ২৬ আসামির ফাঁসির রায়ে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন সিটি করপোরেশনের নিহত কাউন্সিলর নজরুল ইসলামের শ্বশুর শহীদুল ইসলাম।

রায়ের প্রতিক্রিয়ায় শহীদুল ইসলাম বলেন, আমরা এ রায়ে খুশি। এ রায়ে যেন দ্রুত কার্যকর করা হয়, এ জন্য সরকারে কাছে জোর দাবি জানাচ্ছি।

আজ সোমবার নারায়ণগঞ্জে ওই মামলার রায়ে ২৬ আসামিকে মৃত্যুদণ্ডাদেশ দিয়েছেন আদালত।

নারায়ণগঞ্জ জেলা ও দায়রা জজ সৈয়দ এনায়েত হোসেন এই রায় ঘোষণা করেন। এরপরই আদালতপাড়ায় শহীদুল ইসলাম রায় ঘোষণার ১০ মিনিট আগে নিহত কাউন্সিলর নজরুল ইসলামের স্ত্রী সেলিনা ইসলাম বিউটি আদালতে হাজির হন। রায় ঘোষণার সময় নজরুলের শাশুড়ি জ্যোৎস্না বেগম কাঁদতে কাঁদতে বলতে থাকেন এই আসামিরা তার মেয়ের সংসার তছনছ করেছে।

jamunanews24.com/anis/ 16 jan 2017
যমুনা নিউজ: আলোচিত সাত খুনের মামলায় ণুর হোসেনসহ ২৬ আসামির ফাঁসির রায়ে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন সিটি করপোরেশনের নিহত কাউন্সিলর নজরুল ইসলামের শ্বশুর শহীদুল ইসলাম।

রায়ের প্রতিক্রিয়ায় শহীদুল ইসলাম বলেন, আমরা এ রায়ে খুশি। এ রায়ে যেন দ্রুত কার্যকর করা হয়, এ জন্য সরকারে কাছে জোর দাবি জানাচ্ছি।

আজ সোমবার নারায়ণগঞ্জে ওই মামলার রায়ে ২৬ আসামিকে মৃত্যুদণ্ডাদেশ দিয়েছেন আদালত।

নারায়ণগঞ্জ জেলা ও দায়রা জজ সৈয়দ এনায়েত হোসেন এই রায় ঘোষণা করেন। এরপরই আদালতপাড়ায় শহীদুল ইসলাম রায় ঘোষণার ১০ মিনিট আগে নিহত কাউন্সিলর নজরুল ইসলামের স্ত্রী সেলিনা ইসলাম বিউটি আদালতে হাজির হন। রায় ঘোষণার সময় নজরুলের শাশুড়ি জ্যোৎস্না বেগম কাঁদতে কাঁদতে বলতে থাকেন এই আসামিরা তার মেয়ের সংসার তছনছ করেছে।

jamunanews24.com/anis/ 16 jan 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 11:19:33 BDT Mon, 16 Jan 2017 11:19:33 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43095/-
সেই ব্যাটিং বিপর্যয়, সেই স্বপ্নভঙ্গ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43094/- যমুনা নিউজ : স্বপ্নের মতো প্রথম ইনিংস পার করে আবারও সেই ব্যাটিং বিপর্যয়ে বাংলাদেশ শিবিরে। দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাটিং ব্যর্থতার মাসুল গুনতে হলো টাইগারদের। ইমরুল-মুশফিক ইনজুরি নিয়েও খেলতে নেমেছিলেন। মুশফিক আবারও আহত হয়ে মাঠ ছেড়েছেন। ইমরুল কায়েস ছিলেন অপরাজিত। সাব্বির হাফ সেঞ্চুরি করে দায় সেরেছেন। দায়িত্ব নিতে পারেননি। দায়িত্ব নিতে পারেননি আর কেউ। তাই ৭ উইকেটে ওয়েলিংটন টেস্ট সহজেই জিতে নিল নিউজিল্যান্ড।

প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশ করেছিল ৫৯৫ রান। সেই বাংলাদেশের সঙ্গে দ্বিতীয় ইনিংসের বাংলাদেশকে মেলানো কঠিন। সেদিনের ডাবল সেঞ্চুরিয়ান সাকিব আজ ডাক মারলেন। দলের মহাবিপদের সময় অকারণে অপ্রয়োজনীয় শট খেলতে গিয়ে ক্যাচ দিলেন তিনি। এছাড়া মাহমুদ উল্লাহ ৫, মেহেদী মিরাজ ১, মমিনুল হক ২৩, তামিম ইকবাল ২৫ রান করলেন। টেইল এন্ডারদের কথা তো বলাই বাহুল্য। টেল এন্ডারদের দাপটে গতকাল কিউইরা ৫০০ পার হয়েছিল। কিন্তু বাংলাদেশের আজন্ম সমস্যা হয়েই রইল টেইল এন্ডার।

দলের সর্বোচ্চ রান (৫০) করলেন সাব্বির আহমেদ। কিন্তু হাফ সেঞ্চুরি করে তার হয়তো মনে হলো যে অনেক রান করা হয়ে গেছে, এবার যাওয়া যাক। তাই বাজে শট খেলে উইকেট বিলিয়ে দিলেন তিনি। আঙুলে ফোলা আর প্রচণ্ড ব্যাথা নিয়ে ব্যাট হাতে নেমেছিলেন অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম। কিন্তু সাউদির নির্মম বাউন্সারে মাথায় আঘাত পেয়ে সোজা হাসপাতালে যেতে হলো তাকে। তার আগে করে গেলেন ১৩ রান। শেষের দিকে দেখা গেল অনেকটা খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে মাঠে নামছেন গতকাল স্ট্রেচারে করে মাঠ ছাড়া ইমরুল কায়েস। হার না মানা স্বভাবের এই ক্রিকেটার শেষ পর্যন্ত ৩৬ রানে অপরাজিত রইলেন। কিন্তু হায়, তার সঙ্গী ছিলেন না কেউ। প্রথম ইনিংসে রানের পাহাড় গড়া বাংলাদেশ দ্বিতীয় ইনিংসে টেনেটুনে ১৬০ রান করতে পারল।

২১৭ রানের টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে উড়ন্ত সূচনা করে কিউইরা। কিন্তু কিছু পরেই জোড়া আঘাত হেনে ব্যতিক্রমী কিছুর ইঙ্গিত দেন মেহেদী মিরাজ। মেহেদীর ঘূর্ণিতে ক্যাচ তুলে দেন জিত রাভাল (১৩)। মেহেদী নিজেই সেই ক্যাচ তালুবন্দী করেন। দলীয় ৩১ রানে ভাঙে উদ্বোধনী জুটি। ল্যাথামের নতুন সঙ্গী হন অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন। ফিরতি ওভারে বল করতে এসে আবারও আঘাত হানেন মেহেদী। এবার তার শিকার হন প্রথম ইনিংসের সেঞ্চুরিয়ান টম ল্যাথাম। মেহেদীর বলে সরাসরি বোল্ড হয়ে যান ১৬ রান করা ল্যাথাম।

কিন্তু সে পর্যন্তই। এরপর আর পাত্তাই পায়নি বাংলাদেশের বোলাররা। টেইলর আর উইলিয়ামসন মিলে ১৬৩ রানের জুটি গড়েন। শুভাসীশের বলে মেহেদী মিরাজের দারুণ এক ক্যাচে টেইলর (৬০) ফিরে গেলে ভাঙে সেই জুটি। কিন্তু ঠিকই ক্যারিয়ারের ১৫তম সেঞ্চুরি তুলে নেন অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন। ৮৯ বলে তিন অংকে পৌঁছতে তিনি ১৫টি বাউন্ডারি হাঁকান।

এভাবে জয়ের বন্দরে গিয়ে অনেক ম্যাচ হেরেছে বাংলাদেশ। ওয়েলিংটন টেস্টও আরেকটি দৃষ্টান্ত হয়ে রইল। হয়ে রইল বিশ্বরেকর্ডও। কারণ প্রথম ইনিংসে ৫৯৫ রান কিংবা তার বেশি করে হারের রেকর্ড নেই কোনো দলের!


Jamunanews24.com/sm/ 16 janu. 2017
যমুনা নিউজ : স্বপ্নের মতো প্রথম ইনিংস পার করে আবারও সেই ব্যাটিং বিপর্যয়ে বাংলাদেশ শিবিরে। দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাটিং ব্যর্থতার মাসুল গুনতে হলো টাইগারদের। ইমরুল-মুশফিক ইনজুরি নিয়েও খেলতে নেমেছিলেন। মুশফিক আবারও আহত হয়ে মাঠ ছেড়েছেন। ইমরুল কায়েস ছিলেন অপরাজিত। সাব্বির হাফ সেঞ্চুরি করে দায় সেরেছেন। দায়িত্ব নিতে পারেননি। দায়িত্ব নিতে পারেননি আর কেউ। তাই ৭ উইকেটে ওয়েলিংটন টেস্ট সহজেই জিতে নিল নিউজিল্যান্ড।

প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশ করেছিল ৫৯৫ রান। সেই বাংলাদেশের সঙ্গে দ্বিতীয় ইনিংসের বাংলাদেশকে মেলানো কঠিন। সেদিনের ডাবল সেঞ্চুরিয়ান সাকিব আজ ডাক মারলেন। দলের মহাবিপদের সময় অকারণে অপ্রয়োজনীয় শট খেলতে গিয়ে ক্যাচ দিলেন তিনি। এছাড়া মাহমুদ উল্লাহ ৫, মেহেদী মিরাজ ১, মমিনুল হক ২৩, তামিম ইকবাল ২৫ রান করলেন। টেইল এন্ডারদের কথা তো বলাই বাহুল্য। টেল এন্ডারদের দাপটে গতকাল কিউইরা ৫০০ পার হয়েছিল। কিন্তু বাংলাদেশের আজন্ম সমস্যা হয়েই রইল টেইল এন্ডার।

দলের সর্বোচ্চ রান (৫০) করলেন সাব্বির আহমেদ। কিন্তু হাফ সেঞ্চুরি করে তার হয়তো মনে হলো যে অনেক রান করা হয়ে গেছে, এবার যাওয়া যাক। তাই বাজে শট খেলে উইকেট বিলিয়ে দিলেন তিনি। আঙুলে ফোলা আর প্রচণ্ড ব্যাথা নিয়ে ব্যাট হাতে নেমেছিলেন অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম। কিন্তু সাউদির নির্মম বাউন্সারে মাথায় আঘাত পেয়ে সোজা হাসপাতালে যেতে হলো তাকে। তার আগে করে গেলেন ১৩ রান। শেষের দিকে দেখা গেল অনেকটা খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে মাঠে নামছেন গতকাল স্ট্রেচারে করে মাঠ ছাড়া ইমরুল কায়েস। হার না মানা স্বভাবের এই ক্রিকেটার শেষ পর্যন্ত ৩৬ রানে অপরাজিত রইলেন। কিন্তু হায়, তার সঙ্গী ছিলেন না কেউ। প্রথম ইনিংসে রানের পাহাড় গড়া বাংলাদেশ দ্বিতীয় ইনিংসে টেনেটুনে ১৬০ রান করতে পারল।

২১৭ রানের টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে উড়ন্ত সূচনা করে কিউইরা। কিন্তু কিছু পরেই জোড়া আঘাত হেনে ব্যতিক্রমী কিছুর ইঙ্গিত দেন মেহেদী মিরাজ। মেহেদীর ঘূর্ণিতে ক্যাচ তুলে দেন জিত রাভাল (১৩)। মেহেদী নিজেই সেই ক্যাচ তালুবন্দী করেন। দলীয় ৩১ রানে ভাঙে উদ্বোধনী জুটি। ল্যাথামের নতুন সঙ্গী হন অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন। ফিরতি ওভারে বল করতে এসে আবারও আঘাত হানেন মেহেদী। এবার তার শিকার হন প্রথম ইনিংসের সেঞ্চুরিয়ান টম ল্যাথাম। মেহেদীর বলে সরাসরি বোল্ড হয়ে যান ১৬ রান করা ল্যাথাম।

কিন্তু সে পর্যন্তই। এরপর আর পাত্তাই পায়নি বাংলাদেশের বোলাররা। টেইলর আর উইলিয়ামসন মিলে ১৬৩ রানের জুটি গড়েন। শুভাসীশের বলে মেহেদী মিরাজের দারুণ এক ক্যাচে টেইলর (৬০) ফিরে গেলে ভাঙে সেই জুটি। কিন্তু ঠিকই ক্যারিয়ারের ১৫তম সেঞ্চুরি তুলে নেন অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন। ৮৯ বলে তিন অংকে পৌঁছতে তিনি ১৫টি বাউন্ডারি হাঁকান।

এভাবে জয়ের বন্দরে গিয়ে অনেক ম্যাচ হেরেছে বাংলাদেশ। ওয়েলিংটন টেস্টও আরেকটি দৃষ্টান্ত হয়ে রইল। হয়ে রইল বিশ্বরেকর্ডও। কারণ প্রথম ইনিংসে ৫৯৫ রান কিংবা তার বেশি করে হারের রেকর্ড নেই কোনো দলের!


Jamunanews24.com/sm/ 16 janu. 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 11:02:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 11:02:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43094/-
বাগেরহাটে বাসচাপায় নিহত ৪ http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43093/- যমুনা নিউজ: বাগেরহাটের ফকিরহাট উপজেললায় বাসের চাপায় চার ভ্যানযাত্রী নিহত হয়েছেন।

সোমবার সকাল ১০টার দিকে উপজেলার বাগেরহাট-মাওয়া মহাসড়কের ফলতিটা এলাকায়  এ দুর্ঘটনা ঘটে।

ফকিরহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বজলুর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017
যমুনা নিউজ: বাগেরহাটের ফকিরহাট উপজেললায় বাসের চাপায় চার ভ্যানযাত্রী নিহত হয়েছেন।

সোমবার সকাল ১০টার দিকে উপজেলার বাগেরহাট-মাওয়া মহাসড়কের ফলতিটা এলাকায়  এ দুর্ঘটনা ঘটে।

ফকিরহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বজলুর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

jamunanews24.com/rana/16 january 2017 ]]>
Mon, 16 Jan 2017 10:54:00 BDT Mon, 16 Jan 2017 10:54:00 BDT http://www.jamunanews24.com/news-detail/bn/43093/-