A PHP Error was encountered

Severity: Warning

Message: imagejpeg(assets/shares/bn/news-5ec35e19cfef4c5138b0a8fad6fd8dac.jpeg): failed to open stream: Permission denied

Filename: controllers/Reader.php

Line Number: 352

Backtrace:

File: /var/www/html/old_jamuna/application/controllers/Reader.php
Line: 352
Function: imagejpeg

File: /var/www/html/old_jamuna/application/controllers/Reader.php
Line: 66
Function: call_user_func_array

File: /var/www/html/old_jamuna/index.php
Line: 295
Function: require_once

ইজতেমায় ৬ মুসল্লির মৃত্যু | jamunanews24.com

ইজতেমায় ৬ মুসল্লির মৃত্যু | jamunanews24.com

যমুনা নিউজ: শুরু হয়েছে ৫২তম বিশ্ব ইজতেমার আনুষ্ঠানিকতা। শুক্র...

বাংলা  
 জাতীয়
ইজতেমায় ৬ মুসল্লির মৃত্যু
Published : Friday, 13 January, 2017 at 3:25 PM,  Read :  64  times.
ইজতেমায় ৬ মুসল্লির মৃত্যুযমুনা নিউজ: শুরু হয়েছে ৫২তম বিশ্ব ইজতেমার আনুষ্ঠানিকতা। শুক্রবার ফজরের নামাজের পর মাওলানা ওবায়দুল খোরশেদ এর আম বয়ানের মধ্য দিয়ে ইজতেমার আনুষ্ঠানিক কার্যক্রম শুরু হয়।

এদিকে, গতকাল সকাল থেকে আজ শুক্রবার দুপুর পর্যন্ত ৬ মুসল্লির মৃত্যু হয়েছে। এদের অনেকে বার্ধক্যজনিত ও অসুস্থতায় ভুগে মারা গেছেন বলে জানা গেছেন।

সকাল নয়টার দিকে বাবুল মিয়া (৬০) নামে এক মুসল্লি হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে ইন্তেকাল করেন। তিনি ফেনীর দাগনভূইয়া উপজেলার মাছিমপুর গ্রামের আ. রশিদের ছিলে।

অন্য নিহতরা হলেন,মানিকগঞ্জের সাহেব আলী (৩৫) কক্সবাজারের মো. হোসেন আলী (৬৫), বৃহস্পতিবার সকালে ময়মনসিংহের নান্দাইলের মারুয়া গ্রামের মৃত আহম্মদ আলীর ছেলে মো. ফজলুল হক (৫৬), বিকেলে সাতক্ষীরা জেলা সদরের খেজুরডাঙ্গা এলাকার মৃত আব্দুস সোবাহানের ছেলে আ. আব্দুস সাত্তার (৬০) এবং সন্ধ্যায় টাঙ্গাইলের ধনবাড়ি উপজেলার নিজবন্নী এলাকায় মো. জানু ফকির (৭০) ।

তিনদিন ব্যাপী বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব আগামী ১৫ জানুয়ারি রোববার আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হবে। চার দিন বিরতি দিয়ে ২০ জানুয়ারি শুরু হবে দ্বিতীয় পর্ব এবং ২২ জানুয়ারি আখেরি মেনাজাতের মাধ্যমে শেষ হবে এবারের বিশ্ব ইজতেমা।

ইজতেমার নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে পর্যাপ্ত পরিমাণ আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য মোতায়েন করা হয়েছে এবং পাঁচ স্তরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছেন পুলিশ প্রশাসন।

jamunanews24.com/a.rahim/ anis/13 jan 2017

� পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ �